X
বৃহস্পতিবার, ৩০ জুন ২০২২
১৬ আষাঢ় ১৪২৯

ওসিসহ ৩ পুলিশের বিরুদ্ধে মামলা, সমন জারি

আপডেট : ২৯ মার্চ ২০২২, ১৭:২৩

সম্পত্তি আদায়ের উদ্দেশে বল প্রয়োগ, ভয় দেখানো ও সম্পত্তির ক্ষতি করার অভিযোগে খাগড়াছড়ির পানছড়ি থানার সাবেক ওসিসহ তিন পুলিশের বিরুদ্ধে জেলা চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলা করা হয়েছে। মঙ্গলবার (২৯ মার্চ) দুপুরে মামলাটি গ্রহণ করে তিন আসামিকে আগামী ১১ মে আদালতে হাজির হওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. ফরিদ আলম।

অভিযুক্ত তিন পুলিশ হলেন- পানছড়ি থানার সাবেক ওসি মো. নুরুল আলম, এসআই মো. জসিম উদ্দিন ও কনস্টেবল পারভেজ আহামদ।

বাদীপক্ষের আইনজীবী নজরুল ইসলাম দাবি করেন, বাদী পানছড়ি থানার হাসপাতাল এলাকার মৃত হাসান আলীর ছেলে মো. ফজল। তিনি থানা সংলগ্ন ৪৮ শতক জায়গার ক্রয় সূত্রে মালিক ছিলেন। পানছড়ি থানার সীমানা প্রাচীর নির্মাণ করতে গিয়ে তৎকালীন ওসি মো. নুরুল আলম, এসআই মো. জসিম উদ্দিন ও কনস্টেবল পারভেজ আহামদ জোর করে বাদীর ভূমির একাংশ দখল করে দেয়াল নির্মাণ করে ফেলেন। বাদী বাধা দিলে আসামিরা বাদী এবং তার ছেলেকে অবৈধ অস্ত্র ও মাদক দিয়ে মামলায় জড়িয়ে হয়রানির হুমকি দেন।

তিনি আরও দাবি করেন, এরই ধারাবাহিকতায় গত ১০ মার্চ রাত ৯টার দিকে আসামিরা জোর করে বাদীর ছেলে মোটরসাইকেল থানায় নিয়ে যান এবং ইঞ্জিন ও চেচিস নম্বর নষ্ট করেন। এই বিষয়ে বাদী থানায় মামলা করতে চাইলে আসামিরা নেননি। পরে বাদী আদালতে এসে মামলা করলে আদালত তদন্তের নির্দেশ দেন। পুলিশ পর পর দুইবার তদন্ত করলেও ঘটনার সত্যতা নেই উল্লেখ করে প্রতিবেদন উপস্থাপন করে। বাদী নারাজি দিলে জুডিশিয়াল তদন্তের আদেশ দেন আদালত। জুডিশিয়াল তদন্ত ও সিআইডি চট্টগ্রামের প্রতিবেদনে বাদীর অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় মামলাটি আমলে নিয়ে তিন পুলিশ সদস্যকে সমন জারি করে আগামী ৫ মে আদালতে হাজির হওয়ার নির্দেশ দেন আদালত।

আদালতের এসআই রাজু বড়ুয়া বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, আইন সবার জন্য সমান এবং আদালতে তিন পুলিশ নির্দেশিত সময়ে হাজির হবেন।

/এফআর/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
শিক্ষককে হত্যার পর বন্ধুর বাসায় লুকিয়ে ছিল জিতু
শিক্ষককে হত্যার পর বন্ধুর বাসায় লুকিয়ে ছিল জিতু
রাষ্ট্রায়ত্ত পাট, সুতা ও বস্ত্রকল চালুর দাবি শ্রমিক-কর্মচারী পরিষদের
রাষ্ট্রায়ত্ত পাট, সুতা ও বস্ত্রকল চালুর দাবি শ্রমিক-কর্মচারী পরিষদের
জাতিসংঘ মহাসাগর সম্মেলনে বাংলাদেশের নেতৃত্ব দেবেন মোমেন
জাতিসংঘ মহাসাগর সম্মেলনে বাংলাদেশের নেতৃত্ব দেবেন মোমেন
ঝড়ে ভেঙে গেছে গল স্টেডিয়ামের স্ট্যান্ড
ঝড়ে ভেঙে গেছে গল স্টেডিয়ামের স্ট্যান্ড
এ বিভাগের সর্বশেষ
শিক্ষক বাবার ৫ সন্তানই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী
শিক্ষক বাবার ৫ সন্তানই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী
গরুর হাট থেকে ফেরার পথে যুবককে হত্যা
গরুর হাট থেকে ফেরার পথে যুবককে হত্যা
বিদ্যুৎ স্টেশনে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় তদন্ত কমিটি
বিদ্যুৎ স্টেশনে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় তদন্ত কমিটি
পদ্মা-মেঘনা থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন, আটক ১৬
পদ্মা-মেঘনা থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন, আটক ১৬
মহাসড়কে প্রাণ গেলো বীর মুক্তিযোদ্ধার
মহাসড়কে প্রাণ গেলো বীর মুক্তিযোদ্ধার