X
রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
২১ মাঘ ১৪২৯
কক্সবাজারে আওয়ামী লীগের জনসভা

আসছেন প্রধানমন্ত্রী, ৫০০ শয্যার হাসপাতাল বাস্তবায়ন চান কক্সবাজারবাসী

আবদুল আজিজ, কক্সবাজার
০৬ ডিসেম্বর ২০২২, ২৩:০০আপডেট : ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ০০:০০

দীর্ঘদিন পর কক্সবাজারে আসছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বুধবার (৭ ডিসেম্বর) বেলা আড়াইটায় সৈকতের লাবনী পয়েন্টের কাছে শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে আওয়ামী লীগের জনসভায় ভাষণ দেবেন তিনি। তার আগমন ঘিরে উৎসবের নগরীতে পরিণত হয়েছে পর্যটননগরী।

ব্যানার-ফেস্টুনে ছেয়ে গেছে প্রধান সড়ক থেকে শুরু করে অলিগলি। বিভিন্ন সড়কে শতাধিক তোরণ নির্মাণ করা হয়েছে। শহর পরিষ্কার, ফুটপাত রঙ, ভাঙা সড়ক সংস্কার করা হয়েছে। সবমিলিয়ে শেখ হাসিনার আগমন ঘিরে বইছে উৎসবের আমেজ। জনসভায় স্মরণকালের জনসমাগম ঘটিয়ে চমক দেখাতে চান দলীয় নেতাকর্মীরা। এজন্য নেতাকর্মী থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষের মধ্যে দেখা দিয়েছে প্রাণোচ্ছ্বাস। 

এদিকে, বঙ্গবন্ধুকন্যার কাছে আরও কিছু উন্নয়ন প্রকল্প প্রত্যাশা করেন কক্সবাজারবাসী। এর মধ্যে কক্সবাজারে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজকে ৫০০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালে রূপান্তর ও কক্সবাজারে পর্যটন গবেষণা ইনস্টিটিউট এবং আধুনিক ঝিনুক মার্কেট নির্মাণের দাবি তাদের।

জেলার সচেতন মহল ও পেশাজীবী নেতৃবৃন্দ বলছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সর্বশেষ কক্সবাজারে এসেছিলেন ২০১৭ সালের ৬ মে। ওই দিন একসঙ্গে ১৬টি প্রকল্পের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেছিলেন। এর মধ্যে ১৫টির কয়েক শতাংশ কাজ শেষ হয়েছে, অন্যগুলো চলমান। কিন্তু পাঁচ বছরের বেশি সময় অতিবাহিত হলেও আলোর মুখ দেখেনি কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল প্রকল্প। ৭ ডিসেম্বর প্রধানমন্ত্রীর কক্সবাজার সফর ঘিরে যেসব দাবি উঠছে, তার মধ্যে প্রধান হলো কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল। কক্সবাজারের সচেতন মহল ও পেশাজীবী নেতৃবৃন্দ দ্রুত সময়ের মধ্যে কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ হাসাপতাল চালু করতে প্রধানমন্ত্রীর সুদৃষ্টি কামনা করছেন।

প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানাতে প্রস্তুত কক্সবাজারবাসী

কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ ডা. মো. ফরহাদ হোসেন বলেন, ‘ভারতীয় লাইন অব ক্রেডিটের আওতায় কক্সবাজার, যশোর, পাবনা ও নোয়াখালীতে চারটি মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু বিলম্বের কারণে মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল করতে দেরি হয়ে যায়। ফলে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে ভারতীয় লাইন অব ক্রেডিট থেকে মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল নির্মাণের বিষয়টি বাদ দেওয়া হয়েছে। এখন একনেকে প্রকল্প পাঠানো হয়েছে। একনেকে প্রকল্প অনুমোদন পেলে কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল নির্মাণের কাজ শুরু হবে।’

কক্সবাজার পিপলস ফোরামের সাধারণ সম্পাদক ফরহাদ ইকবাল বলেন, ‘জেলার ২৫ লক্ষাধিক মানুষ, যার সঙ্গে রয়েছে ১১ লাখের বেশি রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠী। এখানে দেশি-বিদেশি সংস্থার কর্মকর্তা-কর্মচারী ও পর্যটকদের 
যাতায়াত রয়েছে। এখানে ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতাল চিকিৎসাসেবার জন্য পর্যাপ্ত না। বিষয়টি বিবেচনায় নিয়েই প্রধানমন্ত্রী পাঁচ বছর আগে ৫০০ শয্যার মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেছেন। এখন আমরা হাসপাতাল বাস্তবায়ন চাচ্ছি।’

কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ মোহাম্মদ রেজাউল করিম বলেন, ‘২০০৮ সালে চালু হওয়া এই মেডিক্যাল কলেজ পূর্ণাঙ্গতা পেয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত ধরে। প্রধানমন্ত্রী কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেছেন। কিন্তু নানা জটিলতায় তা বাস্তবায়ন হয়নি।’

তিনি বলেন, ‘২০১১ সালে সাতক্ষীরা মেডিক্যাল কলেজ স্থাপিত হয় এবং মাত্র ছয় বছরের মধ্যে ২০১৭  সালে সাতক্ষীরা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল উদ্বোধন করা হয়। ২০১৩ সালে গাজীপুরে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিক্যাল কলেজ স্থাপিত হয় এবং মাত্র চার বছরের মধ্যে ২০১৭ ওই হাসপাতাল উদ্বোধন করা হয়। এখন প্রধানমন্ত্রী এলে কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল বাস্তবায়নের বিষয়টি জানানো হলে আমাদের নিরাশ করবেন না বলে প্রত্যাশা রাখছি।’

বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন (বিএমএ) কক্সবাজার জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক ডা. মাহাবুবুর রহমান বলেন, ‘কক্সবাজারে চিকিৎসাসেবার ভরসাস্থল সদর হাসপাতাল। এখানে প্রতিদিন সাত হাজারের বেশি রোগী চিকিৎসা নেন। ২০১৭ সালে কক্সবাজারে সমাবেশে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ৫০০ শয্যা বিশিষ্ট কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন। এখন সময় এসেছে মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল দ্রুত চালুর ঘোষণার। প্রধানমন্ত্রী নিশ্চয় এই ঘোষণা দেবেন।’

কক্সবাজার চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি আবু মোর্শেদ চৌধুরী বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী কক্সবাজারকে গুরুত্বপূর্ণ জেলা হিসেবে প্রতিষ্ঠায় কাজ করছেন। এখানে যেসব প্রকল্প চলমান তা হলে বদলে যাবে এই শহর। এখানে মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল থাকবে না, তা হয় না। প্রধানমন্ত্রী তার গুরুত্ব অবশ্যই বোঝেন। যেহেতু প্রকল্পটি একনেকে রয়েছে প্রধানমন্ত্রী অবশ্যই ঘোষণা দেবেন।’

কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ নুরুল আবছার বলেন, ‘একনেকে যাওয়া কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল আর বিলম্ব হওয়ার সুযোগ নেই। ৭ ডিসেম্বর জেলাবাসী প্রধানমন্ত্রীর মুখ থেকে ঘোষণা পাবেন।’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি রেজাউল করিম বলেন, ‘কক্সবাজার জেলায় যে উন্নয়ন হচ্ছে এতে নতুন দাবি বেশি নেই আমাদের। উন্নয়ন প্রকল্পের স্বার্থে আরও কিছু সুযোগ-সুবিধার প্রয়োজন আছে। তাই এবার প্রধানমন্ত্রীর কাছে যেসব দাবি জানানো হবে তার মধ্যে উল্লেখযোগ্য থাকবে মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল দ্রুত চালু এবং কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজকে পূর্ণাঙ্গভাবে প্রতিষ্ঠা।’ 

জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান বলেন, ‘কক্সবাজারকে অপরূপ সৌন্দর্যের লীলাভূমি হিসেবে গড়তে চান শেখ হাসিনা। দেশি-বিদেশি পর্যটকরা যাতে কক্সবাজার এসে ভ্রমণ করতে পারেন, প্রাকৃতিক সৌন্দর্য উপভোগ করতে পারেন সে লক্ষ্যে কাজ করছেন তিনি। কক্সবাজার নিয়ে তার সুদূরপ্রসারী স্বপ্ন রয়েছে। জাতির জনক কক্সবাজারকে খুব বেশি পছন্দ করতেন এবং কক্সবাজারবাসীকে ভালোবাসতেন। তাই এত উন্নয়নের পরও কক্সবাজারবাসী বঙ্গবন্ধুকন্যার কাছে আরও কিছু প্রত্যাশা করেন। এর মধ্যে তার কাছে আমাদের চাওয়া হলো—কক্সবাজারে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজকে ৫০০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালে রূপান্তর, কক্সবাজারের সঙ্গে মহেশখালী উপজেলার সংযোগ সেতু ও বাঁকখালী নদীর তলদেশ দিয়ে টানেল নির্মাণ, কুতুবদিয়ার মগনামাঘাটে ফেরি চালু, কক্সবাজারে পর্যটন গবেষণা ইনস্টিটিউট, চার লেনের মেরিন ড্রাইভ সড়ক, ছয় লেনের কক্সবাজার-চট্টগ্রাম মহাসড়ক, কক্সবাজার সিটি করপোরেশন, কক্সবাজার সিটি কলেজকে সরকারিকরণ, যুগ যুগ ধরে ঝিনুক ব্যবসায় জড়িতদের পুনর্বাসন ও স্থায়ী আধুনিক ঝিনুক মার্কেট নির্মাণ।’

/এএম/
সর্বশেষ খবর
সর্বকালের সেরা বলিউড ছবির পথে ‘পাঠান’
সর্বকালের সেরা বলিউড ছবির পথে ‘পাঠান’
‘কাগজের মূল্য বৃদ্ধির কারণে মানুষের বই কিনতে কষ্ট হচ্ছে’
‘কাগজের মূল্য বৃদ্ধির কারণে মানুষের বই কিনতে কষ্ট হচ্ছে’
আজকের নির্বাচিত বই
অমর একুশে গ্রন্থমেলাআজকের নির্বাচিত বই
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের অডিটরিয়াম উদ্বোধনের আগেই ভাড়া
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের অডিটরিয়াম উদ্বোধনের আগেই ভাড়া
সর্বাধিক পঠিত
দিনদুপুরে তালা ভেঙে ব্যাংক থেকে ৪ লাখ টাকা লুট
দিনদুপুরে তালা ভেঙে ব্যাংক থেকে ৪ লাখ টাকা লুট
ক্রাইম প্যাট্রল থেকে কৌশল শিখে ৫ কিশোরের এক রোমহর্ষক কিলিং মিশন
ক্রাইম প্যাট্রল থেকে কৌশল শিখে ৫ কিশোরের এক রোমহর্ষক কিলিং মিশন
শাকিব ও জোভান প্রসঙ্গে মুখ খুললেন পূজা!
শাকিব ও জোভান প্রসঙ্গে মুখ খুললেন পূজা!
রডের টন লাখ ছুঁই ছুঁই
রডের টন লাখ ছুঁই ছুঁই
সড়কে লাশ হলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী
সড়কে লাশ হলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী