X
সকল বিভাগ
সেকশনস
সকল বিভাগ

ভারতে সাজাভোগের পর ছেলেসহ দেশে ফিরলেন দম্পতি

আপডেট : ০১ জানুয়ারি ২০২২, ২১:১২

ভালো কাজের আশায় ভারত গিয়ে পুলিশের হাতে আটক হয়ে তিন বছর কারাভোগ শেষে দেশে ফিরেছেন একই পরিবারের তিন জন। শনিবার (১ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় ভারতের পেট্রাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশ বেনাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশের কাছে তাদের হস্তান্তর করেন।

ফেরত আসারা হলেন- জেসমিন খাতুন (৩৯), তার স্বামী লোকমান হোসেন (৪৪) ও তাদের ছেলে মো. রাসেল আলী (২০)। তাদের বাড়ি খুলনা জেলার রূপসা থানা এলাকায়। 
 
জেসমিন খাতুন বলেন, ‘অভাব অনটনের সংসারে ভালো কাজের আশায় তিন বছর আগে ভারতে যাই। এরপর সেখানে বাসা-বাড়িতে কাজ করার সময় সে দেশের পুলিশের কাছে আটক হয়ে জেলখানায় যাই। সেখান থেকে একটি এনজিও ছাড়িয়ে নিজেদের শেল্টার হোমে রাখে।’

বেনাপোল ইমিগ্রেশনের ওসি মো. রাজু আহমেদ জানান, তারা ভারতে ব্যাঙ্গালুরু শহরে তিন বছর আগে পাড়ি জমান। এরপর সেখানকার পুলিশের কাছে ধরা পড়ে জেলহাজতে যায়। বিশেষ ট্রাভেল পারমিটের মাধ্যমে আজ দেশে ফিরে এসেছেন। ইমিগ্রেশনের আনুষ্ঠানিকতা শেষে এদের বেনাপোল পোর্ট থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। সেখান থেকে রাইটস যশোর নামে একটি এনজিও সংস্থা ছাড়িয়ে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করবে।

রাইটস যশোরের কর্মকর্তা তৌফিক আহমেদ বলেন, ‘তারা ভারতে ভালো কাজের আশায় সীমান্ত পথে পাচার হয়। এরপর সেখানে পুলিশের কাছে আটক হওয়ার পর এনজিও সংস্থা নেস বাংলা শেল্টার হোমের মাধ্যমে জেল থেকে বের হয়ে ওই হোমে থাকেন। দুই দেশের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে চিঠি চালাচালির এক পর্যায়ে বিশেষ ট্রাভেল পারমিটের মাধ্যমে আজ দেশে ফিরেছেন। বেনাপোল পোর্ট থানার আনুষ্ঠানিকতা শেষে তাদের যশোর রাইটসের হোমে রেখে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে।’

/এফআর/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
যাত্রীরা বলেছেন বিমানবন্দরে সেবার মান ভালো: বিমান প্রতিমন্ত্রী
যাত্রীরা বলেছেন বিমানবন্দরে সেবার মান ভালো: বিমান প্রতিমন্ত্রী
মুশফিক-লিটনের শত রানের জুটিতে এগোচ্ছে বাংলাদেশ
মুশফিক-লিটনের শত রানের জুটিতে এগোচ্ছে বাংলাদেশ
আঞ্চলিক সংকট মোকাবিলায় প্রধানমন্ত্রীর ৫ প্রস্তাব
আঞ্চলিক সংকট মোকাবিলায় প্রধানমন্ত্রীর ৫ প্রস্তাব
৫৫৫ নার্স নেবে কুয়েত, বেতন ৮০-৯০ হাজার টাকা
৫৫৫ নার্স নেবে কুয়েত, বেতন ৮০-৯০ হাজার টাকা
এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
থানা হাজতে নারীকে ধর্ষণ, সাবেক পুলিশ পরিদর্শক কারাগারে
থানা হাজতে নারীকে ধর্ষণ, সাবেক পুলিশ পরিদর্শক কারাগারে
আম কুড়াতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার কিশোরী
আম কুড়াতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার কিশোরী
মাদকবিরোধী অভিযানের খবর শুনে পালাতে গিয়ে সাবেক চেয়ারম্যানের মৃত্যু
মাদকবিরোধী অভিযানের খবর শুনে পালাতে গিয়ে সাবেক চেয়ারম্যানের মৃত্যু
বেনাপোলে মাংকিপক্স নিয়ে সতর্কতা, নির্দেশনা পায়নি হিলি 
বেনাপোলে মাংকিপক্স নিয়ে সতর্কতা, নির্দেশনা পায়নি হিলি 
বেনাপোলে পিস্তলসহ বাবা-ছেলে গ্রেফতার
বেনাপোলে পিস্তলসহ বাবা-ছেলে গ্রেফতার