X
শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪
১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
কাভার্ডভ্যানচাপায় নিহত ৫

নাশতার জন্য হোটেলে ঢোকার আগেই প্রাণ গেলো বাবা-ছেলের

তৌহিদ জামান, যশোর
০২ ডিসেম্বর ২০২২, ১৩:৫৪আপডেট : ০২ ডিসেম্বর ২০২২, ১৬:২৬

বাবার কাছে হোটেলে নাশতা করার আবদার করেছিল তাওহিদ হাবিব তাওসি (৬)। ছেলের আবদার রাখতে তাকে নিয়ে বাড়ির পাশের হোটেলে যাচ্ছিলেন হাবিবুর রহমান (৪৮)। সড়কের পাশ দিয়ে হাঁটছিলেন তারা। তখনও বাবার হাত ধরে ছিল তাওসি। এ সময় দ্রুতগতির একটি কাভার্ডভ্যান এসে তাদের চাপা দিয়ে হোটেলে ঢুকে পড়ে। এতে ঘটনাস্থলেই বাবা-ছেলের মৃত্যু হয়।

শুক্রবার (২ ডিসেম্বর) সকাল সাড়ে ৭টায় যশোরের মণিরামপুর উপজেলার যশোর-সাতক্ষীরা আঞ্চলিক মহাসড়কের বেগারীতলা এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে। ‍

কাভার্ডভ্যানের চাপায় হোটেলে থাকা আরও তিন জন নিহত হয়েছেন। তারা হলেন—টুনিয়াঘরা গ্রামের মীরপাড়া এলাকার শামসুর রহমান মীর (৬৮), তার ভাতিজার ছেলে তৌহিদুল ইসলাম মীর (৩৮) এবং জয়পুর গ্রামের আব্দুল মমিনের জিয়ারুল ইসলাম (৩৫)।

আরও পড়ুন: নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে হোটেলে কাভার্ডভ্যান, বাবা-ছেলেসহ নিহত ৫

কৃষক হাবিবুর রহমানের বাড়ি উপজেলার ভোজগাতি ইউনিয়নের টুনিয়াঘরা গ্রামে। দুর্ঘটনাস্থলের পাশেই তার বাড়ি। হাবিবুর রহমানের দুই ছেলে। বড় ছেলে তাহমিদ রহমান তাজিম স্থানীয় বিদ্যালয়ে অষ্টম শ্রেণিতে পড়ে। ছোট ছেলে তাওসি স্থানীয় একটি মাদ্রাসায় প্রথম শ্রেণির ছাত্র। ঘটনার পর বাবা-ছেলের লাশ বাড়ির উঠানে নিয়ে গেলে স্বজনদের কান্নায় পরিবেশ ভারী হয়ে ওঠে। হাবিবুর রহমানের স্ত্রী তাওহীদা বেগম ছেলের মরদেহ কোলে নিয়ে বিলাপ করছেন। তারা কান্না থামছেই না।

স্বামী-সন্তান হারিয়ে বাকরুদ্ধ হয়ে পড়েছেন তাওহীদা বেগম

হাবিবুর রহমানের বড় ছেলে তাজিম জানায়, প্রতিদিনের মতো আজ সকালেও তাওসি বাবার কাছে আবদার করে সে হোটেলে নাশতা করবে। বাবা তাকে সঙ্গে নিয়ে হোটেলে যাচ্ছিলেন। কিন্তু নাশতা করার আগেই কাভার্ডভ্যানের চাপায় তাদের মৃত্যু হয়েছে।

তাওসির চাচি সাবিনা ইয়াসমিন বলেন, ‘তাওসি সব সময় ওর বাবার সাথে ঘুরতো। মাঠে গেলেও ছেলেটি হাবিবুরের সঙ্গে যেতো। এই শোক আমরা কীভাবে সইবো?’

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, যশোর থেকে একটি কাভার্ডভ্যান যশোর-সাতক্ষীরা আঞ্চলিক মহাসড়ক দিয়ে মণিরামপুরের দিকে যাচ্ছিলো। সকাল ৭টার দিকে কাভার্ডভ্যানটি বেগারীতলায় এলাকায় পৌঁছায়। এ সময় চালক নিয়ন্ত্রণ হারালে সড়কের পাশ দিয়ে হোটেলে নাশতা করতে যাওয়া হাবিবুর ও তার ছেলে তাওসিকে চাপা দিয়ে আবু তালেব খাঁনের হোটেলে ঢুকে পড়ে। এরপর হোটেলে নাশতা করতে থাকা মীর শামসুর রহমান, তৌহিদুল ইসলাম মীর ও জিয়ারুল ইসলামকে চাপা দেয়। ঘটনাস্থলেই পাঁচ জনের মৃত্যু হয়। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের লোকজন ঘটনাস্থলে আসেন।

প্রত্যক্ষদর্শী হোটেল মালিক আবু তালেব খান জানান, টুনিয়াঘরা গ্রামের মধ্যে বেগারীতলা বাজার। বাজারের ভেতর দিয়ে গেছে যশোর-সাতক্ষীরা আঞ্চলিক মহাসড়ক। বাজারে তার হোটেল। সকালে হাবিবুর রহমান তার ছেলেকে সঙ্গে নিয়ে রাস্তার পাশ দিয়ে তার দোকানে নাশতা করতে আসছিলেন। এর কিছুক্ষণ আগে মীর শামসু ও তৌহিদুল তার হোটেল থেকে নাশতা করে পাশের নূরুল আমিনের চায়ের দোকানে চা খেয়ে সামনের চৌকিতে বসে কথা বলছিলেন। এ সময় জিয়ারুল ইসলাম হোটেলে নাশতা খেয়ে বিল পরিশোধের জন্য কাউন্টারের সামনের দিকে দাঁড়িয়ে ছিলেন। তিনি হোটেলের ভেতর থেকে পরোটা নিয়ে সামনের দিকে একজন কাস্টমারকে দিতে যাচ্ছিলেন। এ সময় হঠাৎ একটি কাভার্ডভ্যান নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বিকট শব্দে মহাসড়কের পাশের কয়েকটি দোকানে সামনের দিকে আঘাত করে তার হোটেলে ঢুকে পড়ে। তিনি এ সময় ভয়ে হোটেলের পেছনের দিকে দৌড় দেন। চোখের সামনে কাভার্ডভ্যানের চাপায় পাঁচ জন মারা যান। তিনি অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচে যান। তার হোটেল ভেঙে তছনছ হয়ে গেছে। এতে প্রায় ২০ লাখ টাকার মতো ক্ষতি হয়েছে।

কাভার্ডভ্যানের চাপায় হোটেলে থাকা আরও তিন জন নিহত হয়েছেন

মণিরামপুর ফায়ার স্টেশনের কর্মকর্তা প্রণব কুমার বিশ্বাস বলেন, ‘সকাল সাড়ে ৭টার দিকে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছাই। এরপর কাভার্ডভ্যানের নিচ থেকে তিন জনের মরদেহ উদ্ধার করি।’

তিনি জানান, কাভার্ডভ্যানটি প্রথমে হোটেলের দিকে আসতে থাকা বাবা-ছেলেকে চাপা দেয়। এরপর হোটেলের ভেতরে ঢুকে তিন জনকে চাপা দেয়। ঘটনাস্থলেই তারা মারা গেছেন।

মণিরামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মো. মনিরুজ্জামান জানান, কাভার্ডভ্যান আটক করা হয়েছে। তবে চালক ও চালকের সহকারী পালিয়ে গেছে। এ ঘটনায় আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

/এসএইচ/
সম্পর্কিত
ভিয়েতনামে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ১৪
পাকিস্তানে তাপপ্রবাহে শতাধিক মানুষের হিটস্ট্রোক
মেক্সিকোতে নির্বাচনি প্রচারণা মঞ্চ ধসে নিহত ৯
সর্বশেষ খবর
টাকা না পেয়ে পোস্ট অফিসে নারীর আত্মহত্যার চেষ্টা
টাকা না পেয়ে পোস্ট অফিসে নারীর আত্মহত্যার চেষ্টা
ভিয়েতনামে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ১৪
ভিয়েতনামে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ১৪
চট্টগ্রামে বেড়েছে কোরবানিদাতা, ৩৩ হাজার পশুর ঘাটতি
চট্টগ্রামে বেড়েছে কোরবানিদাতা, ৩৩ হাজার পশুর ঘাটতি
মাভাবিপ্রবি’র ছাত্রীদের মেসে গোপন ভিডিও ধারণের অভিযোগ, শিক্ষার্থীদের অবস্থান কর্মসূচি
মাভাবিপ্রবি’র ছাত্রীদের মেসে গোপন ভিডিও ধারণের অভিযোগ, শিক্ষার্থীদের অবস্থান কর্মসূচি
সর্বাধিক পঠিত
নেপথ্যে ২০০ কোটি টাকার লেনদেন, সিলিস্তাকে দিয়ে হানি ট্র্যাপ
এমপি আজীম হত্যাকাণ্ডনেপথ্যে ২০০ কোটি টাকার লেনদেন, সিলিস্তাকে দিয়ে হানি ট্র্যাপ
পূর্ব তিমুরের মতো খ্রিষ্টান দেশ বানানোর চক্রান্ত চলছে: শেখ হাসিনা
পূর্ব তিমুরের মতো খ্রিষ্টান দেশ বানানোর চক্রান্ত চলছে: শেখ হাসিনা
কবে থেকে পরিকল্পনা ও কেন কলকাতায় হত্যা, জানালো ডিবি
এমপি আনার হত্যাকবে থেকে পরিকল্পনা ও কেন কলকাতায় হত্যা, জানালো ডিবি
বাংলাদেশি শান্তিরক্ষীদের নিয়ে নতুন ষড়যন্ত্র?
বাংলাদেশি শান্তিরক্ষীদের নিয়ে নতুন ষড়যন্ত্র?
এখনও বিশ্বাস করতে পারছি না আমার ভাই এমপি হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে: মেয়র সেলিম
এখনও বিশ্বাস করতে পারছি না আমার ভাই এমপি হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে: মেয়র সেলিম