ভোটকেন্দ্রে বুলবুলের অবস্থান

Send
রাজশাহী প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৪:২৬, জুলাই ৩০, ২০১৮ | সর্বশেষ আপডেট : ১৫:৩৫, জুলাই ৩০, ২০১৮

ভোটকেন্দ্রে বুলবুলের অবস্থানভোট শুরুর আগেই বিএনপির পোলিং এজেন্টদের ভোটকেন্দ্র থেকে বের করে দেওয়ার অভিযোগে রাজশাহী মহানগরীর বিনোদপুর ইসলামিয়া কলেজে অবস্থান নেন বিএনপির মেয়র প্রার্থী মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল। সোমবার সকাল ৮টার দিকে নগরীর স্যাটেলাইট কেন্দ্রে তার ভোট দেওয়ার কথা ছিল। তবে দুপুর ১টা ৩০ মিনিট পর্যন্ত তিনি একই স্থানে অবস্থান নেন। তিনি এই কেন্দ্রে ব্যালটের হিসাব দাবি করেছেন।

জানা গেছে, সোমবার (৩০ জুলাই) সকালে নগরীর বিনোদপুর ইসলামিয়া কলেজে ধানের শীষের পোলিং এজেন্টদের বের করে দেওয়া হয়। পরবর্তীতে ধানের শীষের ভোটারদের ভোটকেন্দ্রে যেতে বাধা দেওয়া হয়- এমন অভিযোগ শুনে বিএনপির মেয়র প্রার্থী মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল কর্মী-সমর্থকদের নিয়ে সেখানে পৌঁছান। পরে তার পোলিং এজেন্টদের পুনরায় প্রবেশ করার আদেশ দিলেও তারা বুথে প্রবেশ করেননি। পরবর্তীতে নিজ পোলিং এজেন্টদের বের করে দেওয়ার প্রতিবাদে কেন্দ্রের বাইরে অবস্থান কর্মসূচি শুরু করেন তিনি।ভোটকেন্দ্রে বুলবুলের অবস্থান

অবস্থান কর্মসূচি চলাকালে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে মেয়র প্রার্থী বুলবুল বলেন, ‘যে দেশে গণতন্ত্র নেই সেখানে আমার ভোট দিয়ে কোনও লাভ নেই। কারও সঙ্গে কোনও ঝামেলাও করতে আমি রাজি নই।’

বিএনপির এই প্রার্থীর অভিযোগ, ওই কেন্দ্রে মেয়র প্রার্থীর ব্যালট শেষ হয়ে গেছে। তাই তিনি প্রিজাইডিং কর্মকর্তার কাছে ব্যালটের হিসাব চেয়েছেন। তিনি বলেছেন, ব্যালটের হিসাব না পেলে তিনি সেখান থেকে যাবেন না।

এদিকে দুপুরে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় স্কুল অ্যান্ড কলেজ কেন্দ্রে বিএনপির ছয়জন পোলিং এজেন্ট রোকনাসা বেগম, শারমীন আক্তার আম্বিয়া, চৌধুরী শারমীন রুনা, আলমগীর হোসেন, পারভীন খাতুন ও আনোয়ারা প্রিজাইডিং কর্মকর্তা দেব দুলাল ঢালীকে লিখিত অভিযোগ দিয়ে বের হন। কিন্তু প্রিজাইডিং কর্মকর্তা তা গ্রহণ করেনি। তাদের অভিযোগ, সুষ্ঠুভাবে ভোটগ্রহণ হচ্ছে না। ভোটার আসার আগে তাদের ভোট দেওয়া হয়ে গেছে বলে জানান। এর প্রতিবাদ জানিয়ে বিএনপির এই ছয়জন পোলিং এজেন্ট বের হয়ে আসেন।

আরও পড়ুন- রাজশাহীতে বিএনপির পোলিং এজেন্টদের বের করে দেওয়ার অভিযোগ

/এফএস/চেক-এমওএফ/

লাইভ

টপ