সাগরে মিললো ২৩ কোটি টাকার চোরাই কাপড়

Send
খুলনা প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৮:৪০, ফেব্রুয়ারি ১৯, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৮:৫৩, ফেব্রুয়ারি ১৯, ২০২০

২৩ কোটি টাকার চোরাই কাপড় জব্দশুল্ক কর ফাঁকি দিয়ে সমুদ্রপথে আসা প্রায় ২৩ কোটি টাকা মূল্যের বিদেশি কাপড় জব্দ করা হয়েছে। এসময় ১২ জন ক্রুসহ কাপড় বহনকারী ট্রলার আটক করা হয়। কোস্ট গার্ড পশ্চিম জোনের সদস্যরা এ অভিযান পরিচালনা করেন।

কোস্ট গার্ড জানায়, গত ১৫ ফেব্রুয়ারি রাতে এ অভিযান পরিচালিত হয়। কোস্ট গার্ড পশ্চিম জোনের ‘বিসিজিএস স্বাধীন বাংলা’ জাহাজ সমুদ্রে টহলরত অবস্থায় মোংলা ফেয়ারওয়ে বয়া সংলগ্ন এলাকা থেকে এ সব পণ্য আটক করে।

কোস্ট গার্ড পশ্চিম জোনের মিডিয়া কর্মকর্তা লেফটেন্যান্ট এম হায়াত ইবনে সিদ্দিক বুধবার দুপুরে এক প্রেস বার্তার মাধ্যমে  জানান, অভিযান চলাকালে কোস্ট গার্ডের উপস্থিতি টের পেয়ে চোরাকারবারী দল দ্রুতগতিতে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। এ সময় কোস্ট গার্ড জাহাজ পিছু ধাওয়া করে ১২ জন ক্রু সহ অবৈধ কাপড় বোঝাই ট্রলারটি আটক করতে সক্ষম হয়। ট্রলার তল্লাশি করে ২০ হাজার ৬৯৯ পিস উন্নতমানের বিদেশি শাড়ি, ৩২১ পিস লেহেঙ্গা এবং ১১০ পিস থ্রি-পিছ জব্দ করা হয়। জব্দকৃত মালামালের আনুমানিক বাজারমূল্য প্রায় ২৩ কোটি টাকা।

অভিযানে  আটককৃতরা হলেন স্বপন (৩৮), গিয়াস উদ্দিন (৫০), আব্দুল কাদের (৩৩), মো. বাবু (১৯), শেখ ফরিদ (৩৬), মোসলে উদ্দিন (২৮), মামুন (২১), হুমায়ুন কবির (৩০), সোলায়মান (৪০), আবুল কালাম (৫০), হারুন হাওলাদার মাঝি (৫৫), বাহার উদ্দিন (৪৫)। আটককৃত ১২ জন ক্রু ও উদ্ধারকৃত মালামাল মোংলা থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

তিনি আরও জানান, ‘খুলনাসহ তৎসংলগ্ন এলাকায় অবৈধভাবে বিদেশি কাপড়ের চোরাচালান রোধে বাগেরহাট, খুলনা ও সাতক্ষীরা এলাকায় কোস্ট গার্ড পশ্চিম জোনের টহল জোরদার করা হয়েছে। একটি চক্র নিজ স্বার্থ হাসিলের জন্য ও সরকারি শুল্ক ফাঁকি দিয়ে অবৈধভাবে বিদেশি কাপড় চোরাচালান ও চোরাইপথে আমদানি করছে। যা একবারেই কাম্য নয়। নদী ও সমুদ্র পথে চোরাচালান বন্ধে বাংলাদেশ কোস্ট গার্ডের নিয়মিত অভিযান অব্যাহত থাকবে।’

 

/এফএস/

লাইভ

টপ