পাগলার সেই শীর্ষ সন্ত্রাসী মীরু গ্রেফতার

Send
নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ২২:১৫, অক্টোবর ১৮, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২২:১৫, অক্টোবর ১৮, ২০২০

সন্ত্রাসী মীর হোসেন মীরু ওরফে ল্যাড়া মীরু

গত ১২ অক্টোবর নারায়ণগঞ্জের পাগলা এলাকায় একটি মানববন্ধন কর্মসূচি শেষে ডিবি পুলিশের এক সদস্যের সঙ্গে দুর্ব্যবহার ও প্রকাশ্যে হুমকি দেন পাগলা শিল্পাঞ্চলের ত্রাস ও ফতুল্লা থানা পুলিশের তালিকাভুক্ত শীর্ষ সন্ত্রাসী মীর হোসেন মীরু ওরফে ল্যাড়া মীরু। সেই ঘটনার ভিডিওটি পরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়। সেই মীরুকে এবার গ্রেফতার করেছে জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ।

রবিবার (১৮ অক্টোবর) দুপুরে পাগলার নিজ বাড়ি থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নারায়ণগঞ্জ জেলা গোয়েন্দা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. জাহেদ চৌধুরি।

তিনি জানান, সন্ত্রাসী মীর হোসেন মিরুর বিরুদ্ধে বিদ্যুৎ চুরির একটি মামলায় ওয়ারেন্ট রয়েছে। ওই মামলায় তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এছাড়া তার বিরুদ্ধে হত্যা, চাঁদাবাজি, অপহরণ, সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডসহ ১৫টি মামলা রয়েছে।
ফতুল্লা থানার ওসি আসলাম হোসন জানান, মিরুর বিরুদ্ধে ফতুল্লা থানায় বিদ্যুৎ আইনে একটি মামলার ওয়ারেন্ট রয়েছে। এছাড়া সে ফতুল্লা থানা পুলিশের একজন তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী। তার বিরুদ্ধে দাঙ্গাহাঙ্গামা, চাদাঁবাজি হত্যাসহ ১৫টি মামলা রয়েছে। ওই সব মামলায় সে জামিনে রয়েছে।

স্থানীয় এলাকাবাসী জানান, সন্ত্রাসী মীর হোসেন মীরু ২০০৯ সালে দিকে পায়ে গুলিবিদ্ধ হয়। পরে অপারেশন করে তার দুই পা কেটে ফেলতে হয়। তারপর থেকে সে হুইল চেয়ারে বসে চলাফেলা করে। হুইল চেয়ারে বসেও মীরু এলাকায় তার সন্ত্রাসী বাহিনীর নেতৃত্ব দিয়ে আসছিলেন। এলাকায় কেউ নতুন বাড়ি নির্মাণ করলে বা জায়গা কিনলে মীরুকে বা তার বাহিনীকে চাঁদা না দিয়ে পারে না। মীরু বাহিনীর কাছে আগ্নেয়াস্ত্র থাকার কারণে ভয়ে এলাকায় কেউ মুখ খুলতে সাহস পায় না। 

/আরআইজে/

লাইভ

টপ