X
সকল বিভাগ
সেকশনস
সকল বিভাগ

লন্ডনে মৈত্রী মঞ্চ মাতালেন রুনা লায়লা

আপডেট : ১২ ডিসেম্বর ২০২১, ১৪:২৮

বাংলাদেশ-ভারত বন্ধুত্বের সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন অনুষ্ঠানে শ্রোতাদের মুগ্ধ করলেন আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন কণ্ঠশিল্পী রুনা লায়লা। ‘মৈত্রী দিবস ২০২১’ শীর্ষক অনুষ্ঠানে তার পরিবেশনা প্রবাসী ও বিদেশি গণ্যমান্য ব্যক্তিদের মন ছুঁয়েছে। যুক্তরাজ্যের রাজধানী লন্ডনে বাংলাদেশ হাইকমিশন ও ভারতীয় হাইকমিশন যৌথভাবে এর আয়োজন করে।

লন্ডন ম্যারিয়ট হোটেল গ্রসভেনর স্কয়ারে গত ৬ ডিসেম্বর ওয়েস্টমিনস্টার বলরুমে মৈত্রী দিবস অনুষ্ঠানে দুটি গান গেয়ে শুনিয়েছেন রুনা লায়লা। এগুলো হলো ‘গঙ্গা আমার মা’ এবং ‘দমাদম মাস্ত কালান্দার’। শেষ গানটি পরিবেশনের সময় মঞ্চে তার দু’পাশে এসে নৃত্যশিল্পীরা নেচেছেন।

মৈত্রী মঞ্চে রুনা লায়লার গানের সঙ্গে নৃত্যশিল্পীরা মৈত্রী দিবস অনুষ্ঠানে ছিলেন যুক্তরাজ্যে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার সাইদা মুনা তাসনিম ও ভারতীয় হাইকমিশনার গায়ত্রী ইসার কুমার।

সাতবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারজয়ী গায়িকা রুনা লায়লা বাংলা ট্রিবিউনকে জানান, বাংলাদেশের জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং ভারতের জাতির পিতা মহাত্মা গান্ধীর প্রতিকৃতি সংবলিত একটি চিত্রকর্ম উন্মোচন করেন দুই দেশের হাইকমিশনার। ছবিটিতে দেখা যায়, বঙ্গবন্ধু ও মহাত্মা গান্ধীর মাঝে শান্তির পায়রা উড়ছে। মুজিববর্ষ ও মহাত্মা গান্ধীর ১৫০তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন করা হয়েছে মৈত্রী দিবস অনুষ্ঠানে।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং ভারতের জাতির পিতা মহাত্মা গান্ধীর প্রতিকৃতি সংবলিত চিত্রকর্ম প্রতিবেশী দুটি রাষ্ট্রের বন্ধুত্বের ৫০ বছর পূর্তি প্রসঙ্গে রুনা লায়লা বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধে বাংলাদেশকে ভারত কতটা সহযোগিতা করেছে ইতিহাসে তা লেখা আছে। সেই বন্ধুত্বের ৫০ বছর পূর্ণ হলো। তাই অনুষ্ঠানের লোগো সাজানোর ক্ষেত্রে ৫ সংখ্যাটিতে বাংলাদেশের পতাকা এবং ০ সংখ্যাটি তুলে ধরতে ভারতের পতাকা ব্যবহার করা হয়েছে। মঞ্চে ডিজিটাল পর্দায় ছিল দুই দেশের পতাকা। এছাড়া দুই পাশে দুই দেশের পতাকা রাখা হয়। সব মিলিয়ে দেশের বাইরে আছি মনেই হয়নি।’ অনুষ্ঠানস্থলে এভাবেই স্বাগত জানানো হয় রুনা লায়লাকে

রুনা আরও জানান, মৈত্রী দিবস অনুষ্ঠানে করোনার কারণে অতিথি সবাইকে প্রবেশপথে টিকা নেওয়ার সনদ দেখাতে হয়েছে।

করোনার কারণে দুই বছরেরও বেশি সময় মেয়ে-নাতিদের কাছে যেতে পারেননি রুনা লায়লা। মেয়ে তানি লায়লা এবং দুই নাতি জেইন ইসলাম ও অ্যারন ইসলামের সঙ্গে সময় কাটাতে গত ১৯ নভেম্বর লন্ডনে যান তিনি। এবার লম্বা সময় তাদের কাছে থাকতে চান বরেণ্য এই সংগীতশিল্পী। মৈত্রি মঞ্চে গাইছেন রুনা লায়লা

/এমএম/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
মোবাইল ফোন-ল্যাপটপসহ প্রযুক্তিপণ্যের দাম বেড়েছে ১০ শতাংশ
মোবাইল ফোন-ল্যাপটপসহ প্রযুক্তিপণ্যের দাম বেড়েছে ১০ শতাংশ
১‌‌২ ঘণ্টা বন্ধের পর ঢাকা-উত্তরবঙ্গ ট্রেন চলাচল শুরু
১‌‌২ ঘণ্টা বন্ধের পর ঢাকা-উত্তরবঙ্গ ট্রেন চলাচল শুরু
ডনবাস আবারও ইউক্রেনের হবে: জেলেনস্কি
ডনবাস আবারও ইউক্রেনের হবে: জেলেনস্কি
দুপুরে শহীদ মিনারে গাফফার চৌধুরীকে শেষ শ্রদ্ধা
দুপুরে শহীদ মিনারে গাফফার চৌধুরীকে শেষ শ্রদ্ধা
এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত