ফোনে নয়, শাকিবের সঙ্গে কথা হয় আইনজীবীর চেম্বারে: দিলরুবা খান

Send
ওয়ালিউল বিশ্বাস
প্রকাশিত : ১৭:৪৯, জুন ৩০, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২১:৪৫, জুন ৩০, ২০২০

শাকিব খানের পক্ষ হয়ে নির্মাতা মালেক আফসারী দাবি করেন, ‘পাসওয়ার্ড’ ছবির শুটিং চলাকালীনই দিলরুবা খানকে সরাসরি ফোন দিয়ে গানটি ব্যবহারের অনুমতি নিয়েছেন তার নায়ক-প্রযোজক। বিপরীতে দিলরুবা খান জানান, এসব মিথ্যা কথা। তার সঙ্গে শাকিব খানের এ বিষয়ে প্রথম দেখা ও কথা হয় আইনজীবীর চেম্বারে। 
শাকিব খান ও দিলরুবা খানদিলরুবা খান ও শাকিব খান দুজনই দেশীয় সংস্কৃতির দুটি ধারার অন্যতম জনপ্রিয় মানুষ। তবে তারা এখন মুখোমুখি আইনি লড়াইয়ে।

শাকিবের বিরুদ্ধে গত ২৮ জুন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) সাইবার ইউনিটে কপিরাইট ইস্যুতে অভিযোগ দায়ের করেছেন কণ্ঠশিল্পী দিলরুবা খান। ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের ২৩ ধারায় এটি করা হয়।
দিলরুবা খানের অভিযোগ, তার গাওয়া বিখ্যাত গান ‘পাগল মন’-এর দুটি লাইন বিনা অনুমতিতে শাকিব খান তার প্রযোজিত-অভিনীত ছবি ‘পাসওয়ার্ড’-এ ব্যবহার করেছেন। এজন্য দেননি কোনও সম্মানীও।
গানটির শিল্পী দিলরুবা খান, গীতিকার কায়সার আহমেদ ও সুরকার আশরাফ উদাসের পক্ষে ডিএমপি সাইবার ইউনিটে আইনজীবী ব্যারিস্টার ওলোরা আফরিন এই অভিযোগ দায়ের করেন।
এদিকে এমন অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে মুখ খুলেছেন ছবিটির পরিচালক মালেক আফসারী। উল্টো প্রশ্নবিদ্ধ করেছেন দিলরুবাকে।
তার দাবি, ‘পাগল মন’ ছবির প্রযোজক নাদের খানের কাছে পারমিশন নিয়েছেন তারা। এমনকি শাকিব খান নিজে ছবির শুটিং চলাকালে ফোন দিয়েছেন দিলরুবাকে। এই কণ্ঠশিল্পী সেদিন উদার মনে শাকিবকে বলেছিলেন, ‘বোনের গান ভাই ব্যবহার করবে, তাতে অনুমতির কী?’
অন্যদিকে, এমন ঘটনা অসত্য বলে দাবি করলেন দিলরুবা খান। তিনি বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘এখন তারা (পাসওয়ার্ড ছবি সংশ্লিষ্টরা) নানা কথা বলছেন। শাকিব কখনোই আমাকে ফোন দেয়নি। তার সঙ্গে কথা হয়েছে আমার আইনজীবীর চেম্বারে। ফেব্রুয়ারি বা মার্চের শুরুর দিকে দেখা হয়েছিল। আমি তাকে বলেছি, আপনি কাজটি অন্যায় করেছেন। বিস্তারিত বলতে পারবেন আমার আইনজীবী।’
এ বিষয়টি দেখভাল করছেন ব্যারিস্টার ওলোরা আফরিন। তার সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘আমরা ৭ মার্চ নোটিশ পাঠাই প্রযোজক শাকিব খানকে। এর কয়েকদিন পর সাধারণ ছুটির আগ দিয়ে তিনিসহ বেশ কয়েকজন আমার চেম্বারে আসেন। উনার প্রথম কথাই হলো, এতে মাত্র দুই লাইন ব্যবহার করা হয়েছে, এজন্য সম্মানী কেন দিতে হবে? পরে শাকিব দুই লাখ টাকা দিতে চান। তবে বিষয়টিতে পুরোপুরি দ্বিমত প্রকাশ করেন আমার ক্লায়েন্ট দিলরুবা খান ও গানের গীতিকার ও সুরকার পক্ষ। শাকিব আমাদের অনুরোধ করেন নেগোসিয়েশন চলাকালে যেন বিষয়টি নিয়ে আমরা পাবলিকলি না আসি। এরপর দীর্ঘ তিন মাস কেটে গেছে। তাদের কোনও পদক্ষেপ আমরা দেখতে পাইনি। সেই সূত্রে আমরা মামলার উদ্যোগ নিই।’

সম্মানীর জন্য শাকিব ফোন দিয়েছিলেন দিলরুবা খানকে!

এদিকে মালেক আফসারীর বক্তব্য, গানটি যেহেতু ‘পাগল মন’ ছবির প্রযোজক নাদের খানের কাছ থেকে কিনে নিয়েছেন তারা, সেই অনুমতিপত্র তাদের কাছে আছে।

অন্যদিকে আইনজীবী ওলোরা আফরিন বলেন, ‌‘‘গানটি প্লেব্যাকের জন্য তৈরি নয়। বাংলাদেশ বেতারে প্রথম প্রচার হয় এটি। এরপর ব্যবহার করা হয় ‘পাগল মন’ চলচ্চিত্রে। চলচ্চিত্রের সেই স্বত্বটি নাদের খান আবার অনুপম মুভিজের কাছে বিক্রি করেছেন। তবে গানের মূল মালিক গীতিকার, সুরকার ও গায়িকা। সুতরাং তাদের মেধাস্বত্ব ও অনুমতির অবশ্যই প্রয়োজন আছে।’’
মালেক আফসারী পরিচালিত ‘পাসওয়ার্ড’ সিনেমার নায়ক ও প্রযোজক শাকিব খান। এতে ‘পাগল মন’ শিরোনামে ব্যবহৃত গানে কণ্ঠ দেন অশোক সিং। ছবিতে শাকিবের বিপরীতে ছিলেন শবনম বুবলী। গত বছরের ৫ জুন ছবিটি মুক্তি পায়।

/এমএম/এমওএফ/

লাইভ

টপ