ভ্যাকসিন চেয়ে আগাম আবেদন করেছে ২০টি দেশ: রাশিয়া

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ২০:৩৬, আগস্ট ১১, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০১:৫২, আগস্ট ১২, ২০২০

নিজেদের উদ্ভাবিত কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন বাজারে আসার আগেই বিশ্বে এর ব্যাপক চাহিদা তৈরি হয়েছে বলে দাবি করেছে রাশিয়া। মঙ্গলবার (১১ আগস্ট) ভ্যাকসিনটির অর্থায়নকারী রাশিয়ান ডিরেক্ট ইনভেস্টমেন্ট ফান্ড-এর পক্ষ থেকে এ দাবি করা হয়েছে। জানানো হয়েছে, সোভিয়েত স্যাটেলাইটের নামে নতুন ভ্যাকসিনটির নামকরণ করা হয়েছে ‘স্পুটনিক ভি’। ফরাসি বার্তা সংস্থা এএফপি’র প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।প্রতীকী ছবি

রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে যৌথভাবে এই ভ্যাকসিন তৈরি করেছে গামালেয়া রিসার্চ ইনস্টিটিউট। ১২ জুলাই রাশিয়ার পক্ষ থেকে দাবি করা হয়, ভ্যাকসিনের ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল সফলভাবে শেষ করেছে তারা। তবে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পক্ষ থেকে রাশিয়াকে করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন উদ্ভাবনে আন্তর্জাতিক নির্দেশনা অনুসরণ করার আহ্বান জানানো হয়। মঙ্গলবার (১১ আগস্ট) রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন জানিয়েছেন, ভ্যাকসিনটি স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন পেয়েছে। ইতোমধ্যে তার মেয়ে ভ্যাকসিনটি গ্রহণও করেছেন।

মঙ্গলবার রাশিয়ান ডিরেক্ট ইনভেস্টমেন্ট ফান্ডের প্রধান কিরিল দিমিত্রিয়েভ জানান, বুধবার থেকে ভ্যাকসিনটির তৃতীয় ধাপের ক্লিনিক্যাল পরীক্ষা শুরু হবে। সেপ্টেম্বর থেকে পুরোপুরি এর উৎপাদন শুরু করার আশা করা হচ্ছে। এরইমধ্যে ভ্যাকসিনটির বিপুল চাহিদা তৈরি হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, ‘গামালেয়া ইন্সটিটিউটের তৈরি এ রুশ ভ্যাকসিনটির প্রতি বহির্বিশ্বের বেশ আগ্রহ দেখতে পাচ্ছি। এরইমধ্যে ২০টি দেশ ১০০ কোটিরও বেশি ডোজের জন্য আবেদন জানিয়ে রেখেছে।’

কিরিল বলেন, বিদেশি অংশীদারদের সঙ্গে নিয়ে পাঁচটি দেশে বছরে ৫০ কোটি ডোজ ভ্যাকসিন তৈরি করতে প্রস্তুত আছে রাশিয়া।

 

/এফইউ/এমওএফ/

লাইভ

টপ