আইফেল টাওয়ারের আলোয় স্বাস্থ্যকর্মীদের অন্যরকম ধন্যবাদ

Send
জার্নি ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৫:৩০, এপ্রিল ০২, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৫:৩০, এপ্রিল ০৪, ২০২০

আইফেল টাওয়ারকরোনাভাইরাস থেকে সংক্রমিত কোভিড-১৯ রোগীর সংখ্যা বেড়ে চলেছে সারাবিশ্বে। জীবাণুটির প্রাদুর্ভাবে ফ্রান্স এখন লকডাউনে। এ কারণে দেশটির রাজধানী প্যারিস এখন ভূতুড়ে শহর। অথচ বিশ্বের সবচেয়ে বেশি পর্যটক সমাগম হওয়া গন্তব্যের মধ্যে এটি অন্যতম। সারাবছরই ভ্রমণপ্রেমীদের ভিড় লেগে থাকতো এখানে।

প্যারিসের সবচেয়ে বিখ্যাত স্থাপনা আইফেল টাওয়ার যেন একা দাঁড়িয়ে আছে! পুরোপুরি জনশূন্য এর চারপাশ। এ এক নজিরবিহীন ঘটনা।

আইফেল টাওয়ারফ্রান্সের ইতিহাসে স্বাস্থ্য-সম্পর্কিত সবচেয়ে কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। এ কারণে জরুরি প্রয়োজন ছাড়া কেউই ঘরের বাইরে যেতে পারছেন না। শহরজুড়ে পুলিশ টহল দিয়ে পথচারীদের ঘরে ফেরাচ্ছে এবং গাড়ি থামিয়ে কাগজপত্র পরীক্ষা করছে দিনভর।

এদিকে কোভিড-১৯ রোগীদের চিকিৎসায় অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন স্বাস্থ্যকর্মীরা। মহামারির বিরুদ্ধে সামনে থেকে লড়ছেন তারা। এজন্য তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানানো হলো অন্যরকমভাবে। আইফেল টাওয়ারের সোনালি আলোয় প্রদর্শিত হয় ফরাসি শব্দ ‘মেসি’ (ধন্যবাদ)। এছাড়া ফরাসি ভাষায় ‘রেস্তে শেভুঁ’ (ঘরে থাকুন) ও ইংরেজিতে ‘স্টে অ্যাট হোম’ বার্তা দেখানো হয়।

প্যারিসের মেয়র অ্যান হিডালগো জানিয়েছেন, গত ২৮ মার্চ দেখানো হয় বার্তাগুলো। তবে প্রতিদিন সন্ধ্যায় ৩২৪ মিটার লম্বা আইফেল টাওয়ারে বাতি জ্বালানো হচ্ছে। 

স্বাস্থ্যকর্মীদের প্রতি একাত্মতা প্রদর্শনের এমন চিত্র ফ্রান্স জুড়ে আগেও দেখা গেছে। লকডাউনে থাকা ফরাসিরা ব্যালকনি ও জানালায় দাঁড়িয়ে চিকিৎসক ও নার্সদের তালি ও হর্ষধ্বনিতে সমর্থন জানিয়ে।

/জেএইচ/
টপ