X
বুধবার, ১০ আগস্ট ২০২২
২৫ শ্রাবণ ১৪২৯

নিয়ম ভেঙে রহিমা কানিজকে জাবির রেজিস্ট্রার নিয়োগ

জাবি প্রতিনিধি
০৩ জুলাই ২০২২, ১৮:১৪আপডেট : ০৩ জুলাই ২০২২, ১৮:১৪

নানা বিতর্কের পরেও জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) সদ্য সাবেক ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার রহিমা কানিজকে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার পদে এক বছরের জন্য চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৩০ জুন) উপাচার্য অধ্যাপক নূরুল আলম স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

চিঠিতে বলা হয়, ‘গত ২৭ জুন অনুষ্ঠিত সিন্ডিকেটের বিশেষ সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী জানানো যাচ্ছে, আপনার অবসর প্রস্তুতিমূলক ছুটি থেকে প্রচলিত নিয়মে ৩০ জুন থেকে ৫ জুলাই বিকাল পর্যন্ত ছুটি ভোগের অনুমতি দেওয়া হলো। অবশিষ্ট ছুটি বাতিল করে ৫ জুলাই বিকাল থেকে আপনাকে এই বিশ্ববিদ্যালয়ের চাকরি থেকে অবসর দেওয়া হলো। ৬ জুলাই দুপুর থেকে নিম্নবর্ণিত শর্ত সাপেক্ষে রেজিস্ট্রার পদে এক বছরের জন্য চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ দেওয়া হলো।’

শর্তগুলো হলো– প্রচলিত সরকারি নিয়ম অনুযায়ী বেতন নির্ধারিত হবে; এই নিয়োগ ৬ জুলাই ২০২২ পূর্বাহ্ন থেকে এক বছর কার্যকর থাকবে; বার্ষিক ইনক্রিমেন্ট পাবেন না, এই চুক্তিভিত্তিক নিয়োগের পর নতুন কোনও বেতন স্কেল কার্যকর হলে তার ওপর ভিত্তি করে অতিরিক্ত পেনশন সুবিধা পাবেন না। তবে প্রচলিত নিয়মে চিকিৎসা ভাতা, বাড়ি ভাড়া ভাতা, উৎসব ভাতা, মহার্ঘ ভাতা (যদি প্রদত্ত হয়), পদের অন্যান্য সুবিধা ইত্যাদি পাবেন। ওইসব ভাতা পেনশনের সঙ্গে বা বেতনের সঙ্গে নিতে পারবেন; সাধারণ ভবিষ্যৎ তহবিলের (নন-কন্ট্রিবিউটরি) সুযোগ পাবেন; বছরে অনূর্ধ্ব দশ দিন নৈমিত্তিক ছুটি এবং স্বাস্থ্যগত কারণে স্ব-বেতনে অনূর্ধ্ব আরও পনেরো দিন ছুটি পাওয়ার অধিকারী হবেন। তবে এই ছুটি ভোগ না করলে তা জমা রাখা যাবে না।’

এদিকে, বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৬ সালের ৩০০তম সিন্ডিকেটের আলোচ্যসূচির বিবিধ (ক)-তে বলা হয়, ‘এখন থেকে শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী কোনও পর্যায়ে চুক্তিভিত্তিতে নিয়োগ দেওয়া যাবে না।’ সুনির্দিষ্ট এ নির্দেশনা ও নিয়ম-নীতি থাকার পরেও তার তোয়াক্কা না করে চুক্তিভিত্তিক রেজিস্ট্রার নিয়োগ দেওয়ায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মাঝে ক্ষোভ দেখা দিয়েছে। তারা জানান, অবসরপ্রাপ্ত একজনকে পুনরায় রেজিস্ট্রার পদে নিয়োগ দেওয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে যোগ্য রেজিস্ট্রার প্রার্থীদের প্রতি অবিচার।

 

/এমএএ/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
কুমিরের সঙ্গে লড়াই করে বেঁচে ফিরলেন যুবক
কুমিরের সঙ্গে লড়াই করে বেঁচে ফিরলেন যুবক
নারী উদ্যোক্তাকে হত্যার অভিযোগে স্বামী ও শিক্ষিকা গ্রেফতার
নারী উদ্যোক্তাকে হত্যার অভিযোগে স্বামী ও শিক্ষিকা গ্রেফতার
নিষিদ্ধ আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের আবু তাল্লাহর খোঁজে আসাম পুলিশ
নিষিদ্ধ আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের আবু তাল্লাহর খোঁজে আসাম পুলিশ
বঙ্গোপসাগরে মাছ ধরার ট্রলারডুবি, ১৩ জেলে নিখোঁজ
বঙ্গোপসাগরে মাছ ধরার ট্রলারডুবি, ১৩ জেলে নিখোঁজ
এ বিভাগের সর্বশেষ
তুরাগ নদে গোসলে নেমে ২ স্কুলছাত্রের মৃত্যু
তুরাগ নদে গোসলে নেমে ২ স্কুলছাত্রের মৃত্যু
বনলতা এক্সপ্রেসের ইঞ্জিন বিকল, ২ ঘণ্টা বন্ধ ট্রেন চলাচল
বনলতা এক্সপ্রেসের ইঞ্জিন বিকল, ২ ঘণ্টা বন্ধ ট্রেন চলাচল
বাসে ডাকাতি-ধর্ষণ: ৪ জনের স্বীকারোক্তি, রিমান্ডে ৬
বাসে ডাকাতি-ধর্ষণ: ৪ জনের স্বীকারোক্তি, রিমান্ডে ৬
‘ট্রেনের ভাড়া বাড়ানোর সিদ্ধান্ত হয়নি, আলোচনা চলছে’
‘ট্রেনের ভাড়া বাড়ানোর সিদ্ধান্ত হয়নি, আলোচনা চলছে’
সবুজ রূপ কমছে ঢাকায়, বাড়ছে বিপদ
সবুজ রূপ কমছে ঢাকায়, বাড়ছে বিপদ