X
শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪
৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

যশোরে বার অ্যাসোসিয়েশন ভবন নির্মাণের আশ্বাস আইনমন্ত্রীর

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
০৬ মে ২০২৪, ১৯:০৮আপডেট : ০৬ মে ২০২৪, ১৯:০৮

প্রধানমন্ত্রীর তহবিলের মাধ্যমে যশোরে বার অ্যাসোসিয়েশন ভবন নির্মাণের আশ্বাস দিয়েছেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। সোমবার (৬ মে) জাতীয় সংসদের প্রশ্নোত্তরে যশোর-৩ আসনের এমপি কাজী নাবিল আহমেদের এক সম্পূরক প্রশ্নের জবাব দিতে গিয়ে মন্ত্রী এ আশ্বাস দেন। স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে প্রশ্নোত্তর অনুষ্ঠিত হয়।

সরকার দলের সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদ তার প্রশ্নে বলেন, যশোর ব্রিটিশ ভারতের প্রথম জেলাগুলোর মধ্যে অন্যতম। যশোরে ১২ তলা সুদৃশ্য চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ভবন নির্মিত হয়েছে। এর মাধ্যমে বিচারকাজ সুচারুভাবে পরিচালিত হচ্ছে। সেখানে বিচারপ্রার্থীরা সুবিচার পাচ্ছেন।

বেঞ্চ ও বারের মধ্যে সবসময় গভীর সম্পর্ক থাকে উল্লেখ করে যশোর-৩ আসনের এই এমপি বলেন, বিচারকাজ সম্পন্ন করার জন্য আমাদের বেঞ্চ ও বারের মধ্যে সম্পর্ক রাখা জরুরি। যশোর বারটি সুপ্রাচীন। ১৮৮০ সালের দিকে এই বারটি গঠিত হয়েছে। বঙ্গবন্ধুর ঘনিষ্ট সহচর অ্যাডভোটে মশিউর রহমান, যিনি এমএনএ নির্বাচিত হয়েছিলেন, তাকে ক্যান্টনমেন্টে নিয়ে নির্মমভাবে নির্যাতন করে হত্যা করা হয়েছে। তিনিও কিন্তু এই বারের সভাপতি নির্বাচিত হয়েছিলেন। ২০১৯ সালের বারের তৎকালীন সভাপতির মাধ্যমে আইনমন্ত্রীর সমীপে একটি আবেদন দেওয়া হয় আমাদের বারের জন্য একটি নতুন ভবন নির্মাণ করার বিষয়ে। মাননীয় মন্ত্রীর কাছে প্রশ্ন, যশোরে বার ভবন নির্মাণ হবে কি না?

জবাবে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেন, বার অ্যাসোসিয়েশন বিল্ডিং তৈরি করতে বরাদ্দ দেওয়ার জন্য সরকারের কোনও খাত নেই। কিন্তু প্রধানমন্ত্রীর বদন্যতায় তার ফান্ড থেকে বার অ্যাসোসিয়েশন ভবন নির্মাণ করার অনেক প্রকল্প হাতে নিয়েছি। প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। তিনি বলেছেন, যেখানে বার অ্যাসোসিয়েশন ভবন নির্মাণ প্রকল্প গ্রহণ করা হবে, সেজন্য তার কাছে যেন টাকা চাওয়া হয়। সারা বাংলাদেশে আমরা এটি করার ইচ্ছা রাখি। সারা বাংলাদেশের মধ্যে যশোরও রয়েছে। সেজন্য যশোরেও এই বার অ্যাসোশিয়েশন ভবন নির্মাণ হবে।

/ইএইচএস/এফএস/
সম্পর্কিত
কৃষিতে ভর্তুকি কমানোয় সংসদে অর্থমন্ত্রীর সমালোচনা
‘আসন কম থাকায় মেধাবী মেয়েরা ক্যাডেট কলেজে পড়ার সুযোগ পাচ্ছে না’
৫০৪ বীরাঙ্গনা পেয়েছেন মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতি: মন্ত্রী
সর্বশেষ খবর
অবশেষে বদলি হলেন সাতক্ষীরা পৌরসভার সেই সিইও
অবশেষে বদলি হলেন সাতক্ষীরা পৌরসভার সেই সিইও
কোরবানির বর্জ্য অপসারণে নিয়ন্ত্রণ কক্ষ খুলেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি
কোরবানির বর্জ্য অপসারণে নিয়ন্ত্রণ কক্ষ খুলেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি
রাতে উত্তরের মহাসড়কে যানবাহনের চাপ আরও বেড়েছে
রাতে উত্তরের মহাসড়কে যানবাহনের চাপ আরও বেড়েছে
ঈদে চামড়া ব্যবসায়ীদের নজরদারিতে রাখবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী
ঈদে চামড়া ব্যবসায়ীদের নজরদারিতে রাখবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী
সর্বাধিক পঠিত
ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণিতে মূল্যায়ন হবে যেভাবে
ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণিতে মূল্যায়ন হবে যেভাবে
শ্রমিকদের অবরোধে বন্ধ ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক
শ্রমিকদের অবরোধে বন্ধ ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক
শেবাগের সমালোচনার জবাবে যা বললেন সাকিব
শেবাগের সমালোচনার জবাবে যা বললেন সাকিব
১৯ বল ব্যাট করে ওমানকে হারালো ইংল্যান্ড
১৯ বল ব্যাট করে ওমানকে হারালো ইংল্যান্ড
সেন্টমার্টিনে খাদ্যসংকট, কক্সবাজার থেকে গেলো পণ্যবোঝাই জাহাজ
সেন্টমার্টিনে খাদ্যসংকট, কক্সবাজার থেকে গেলো পণ্যবোঝাই জাহাজ