তৈরি পোশাক খাতে গত ১০ বছরে সর্বোচ্চ বরাদ্দ, তবে যৎসামান্য: রুবানা হক

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৮:২৭, জুন ১৩, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৯:৩১, জুন ১৩, ২০১৯

ফেসবুক লাইভে বাজেট প্রতিক্রিয়া জানাচ্ছেন বিজিএমইএ সভাপতি রুবানা হকতৈরি পোশাক খাতে গত ১০ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ বরাদ্দ দেওয়া হলেও তা চাহিদার তুলনায় যতসামান্য বলে মন্তব্য করেছেন বিজিএমইএ সভাপতি রুবানা হক। বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) জাতীয় সংসদে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল ২০১৯-২০ অর্থবছরের জাতীয় বাজেট পেশের পর তৈরি পোশাক খাতের প্রণোদনা বরাদ্দ দেখে এ মন্তব্য করেছেন তিনি। বাজেট পরবর্তী প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করতে গিয়ে তাৎক্ষণিক সংবাদ সম্মেলনে বিজিএমইএ সভাপতি এসব কথা বলেন। সংবাদ সম্মেলনটি ফেসবুকে লাইভ করা হয়।

প্রস্তাবিত বাজেটে তৈরি পোশাকের চারটি খাতে বিদ্যমান ৪ শতাংশ রফতানি প্রণোদনার পাশাপাশি নতুন অর্থবছরে বাকি সব খাতের জন্য এক শতাংশ হারে রফতানি প্রণোদনার প্রস্তাব করেছেন অর্থমন্ত্রী। এজন্য আসন্ন অর্থবছরের বাজেটে আরও দুই হাজার ৮২৫ কোটি টাকার বরাদ্দের প্রস্তাব করেন তিনি।

এই প্রণোদনা বরাদ্দের পর দেওয়া প্রতিক্রিয়ায় বিজিএমইএ সভাপতি রুবানা হক তার সংবাদ সম্মেলনে বলেন, এই খাত এখন যে চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি সেখানে এই বরাদ্দও আমরা যৎসামান্য মনে করি। প্রণোদনা অন্তত ৩ শতাংশ দিলে আমাদের জন্য ভালো হতো।

তিনি বলেন, এবারের বাজেটে গতানুগতিকের বাইরে অনেকগুলো নতুন খাতকে অগ্রাধিকার দেওয়া হয়েছে। এরমধ্যে সামাজিক বেষ্টনীর পরিধি বাড়ানো হয়েছে, প্রবাসী আয়কে উৎসাহিত করার জন্য শতকরা ২ শতাংশ হারে নগদ সহায়তা দেওয়া হয়েছে।

পোশাক শ্রমিকদের যেন সামাজিক সুরক্ষা খাতের অধীনে আনা হয় সে দাবি করে রুবানা হক আরও বলেন, বাজেটের আগে আমরা এটি প্রস্তাব করেছিলাম, কিন্তু প্রস্তাবিত বাজেটে যে খাতগুলো উল্লেখ করা হয়েছে তার মধ্যে পোশাক শ্রমিক নেই। কিন্তু বরাদ্দের পরিমাণ যেহেতু ৭৪ হাজার ৩শ’ ৬৭ কোটি টাকা সেহেতু পোশাক শ্রমিকদেরও এর আওতায় আনার আহ্বান জানান তিনি।

/ইউআই/টিএন/এমওএফ/

লাইভ

টপ