X
মঙ্গলবার, ২৫ জানুয়ারি ২০২২, ১১ মাঘ ১৪২৮
সেকশনস

নির্বাচনে গোষ্ঠীগত সহিংসতা বন্ধে রাজনৈতিক সিদ্ধান্ত যথেষ্ট নয়: আ.লীগ

আপডেট : ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ১৫:১৫

চলমান ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে সহিংসতা ও খুনোখুনির ঘটনা বেড়েই চলেছে। সরকার সহিংসতা বন্ধ করতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে সজাগ ও সতর্ক থাকার কড়া নির্দেশনা দিলেও থামছে না নির্বাচনি সহিংসতা। ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সহিংসতা বন্ধে সারা দেশে বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করছে। কিন্তু বিএনপিবিহীন এই নির্বাচনেও ঘটছে সহিংসতা। আওয়ামী লীগ এই সহিংসতার পেছনে দায়ী করছে স্থানীয় গোষ্ঠীগত দ্বন্দ্বকে।

রাজনৈতিক দ্বন্দ্বের চেয়ে ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে গোষ্ঠীগত ও সামাজিক পুরনো অমিলগুলো সামনে নিয়ে শোধ নেওয়ার মানসিকতা থেকে মূলত সহিংসতা ঘটছে। আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় নেতারা  বলেন, এই সহিংসতা বন্ধে রাজনৈতিক হস্তক্ষেপে সুফল আসবে না। এজন্য প্রয়োজন সামাজিক সতর্কতা ও সচেতনতা। ক্ষমতাসীন দলের এসব নেতা আরও বলেন, সহিংসতা বন্ধে আমাদের সাংগঠনিক নির্দেশনা রয়েছে। সামাজিক সচেতনতা ও সতর্কতা অনুসরণ করবে নেতাকর্মীরা। শুধু রাজনৈতিক সিদ্ধান্তে সহিংসতা বন্ধ করা সম্ভব হবে না বলেও মনে করেন তারা। ইউপি নির্বাচন একেবারেই প্রান্তিক পর্যায়ের। এখানে গোষ্ঠী, পরিবার ও পেশিশক্তি ব্যাপার হয়ে দাঁড়ায়। এ বাড়ি ও বাড়ি দ্বন্দ্ব থাকে। ইউপি নির্বাচন এলে এসব দ্বন্দ্ব উসকে ওঠে। একপর্যায়ে এগুলো সহিংসতায় রূপ নেয়। ইউপি নির্বাচনকে টার্গেট করে অপেক্ষায় থাকে এই সুযোগসন্ধানীরা। বিএনপি মাঠে না থাকায় মাঠে এখন শুধু আওয়ামী লীগ। এটাও সহিংসতা সৃষ্টির একটি কারণ।

সোমবার (২৯ নভেম্বর) দলীয় এক কর্মসূচিতে এসব নিয়ে কথা বলেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, ইউপি নির্বাচনে কিছু অসুস্থ প্রতিযোগিতা আমাদের বিড়ম্বনায় ফেলেছে–এতে কোনও সন্দেহ নেই। কিন্তু ভোটারদের উপস্থিতি সর্বকালের রেকর্ড ভঙ্গ করেছে।

আওয়ামী লীগ সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মতিয়া চৌধুরী বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, সহিংসতার ঘটনা অনভিপ্রেত। কিন্তু স্থানীয় সরকার নির্বাচনে এ ধরনের ঘটনা ঘটে, এটা নতুন কিছু না। এমন না যে এভাবেই ঘটেছে। এখানে গোষ্ঠীগত দ্বন্দ্ব সহিংসতা সৃষ্টি করে।

যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ইউপি নির্বাচনে সহিংসতা সবসময়ই ছিল। এটা কমানোর চেষ্টা আছে। এটা তো থাকবেই। সরকারের তরফ থেকে চেষ্টা হচ্ছে, আমরা সাংগঠনিকভাবে আমাদের দল থেকে এমনটা যেন না হয় তার নির্দেশনা দিয়েছি।

সাংগঠনিক সম্পাদক এস এম কামাল হোসেন বলেন, ইউপি নির্বাচনের সহিংসতায় মৃত্যু দুঃখজনক। এটা অনাকাঙ্ক্ষিত, কেউ কামনা করে না। তবে ইউপি নির্বাচনে অতীতেও সংঘাত হয়েছে, রক্তপাত হয়েছে। এখন এটা দমনে সরকারের পক্ষ থেকে চেষ্টা করা হচ্ছে। আমরা দলীয়ভাবেও চেষ্টা করতেছি।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে দলটির এক নেতা বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, করোনাকালীন পরিস্থিতির কারণে মানুষের সহনশীলতা, মানসিক স্বাস্থ্যে অস্থিরতা আছে—এটাও সহিংসতার বাড়ার আরেকটি কারণ। এছাড়াও গোষ্ঠীগত দ্বন্দ্ব, পাড়া-প্রতিবেশী, বংশ, প্রভাব বিস্তার নিয়ে প্রতিযোগিতার অস্থিরতা অতীতেও ছিল, এখনও হচ্ছে।

সহিংসতায় সরকার দলীয় নেতাকর্মীরাই খুন হচ্ছে—এমন প্রশ্নে ওই নেতা আরও বলেন, বিএনপি না থাকায় মাঠে এখন শুধু আওয়ামী লীগ। তাই আমরা আমরাই তো মারা যাবো।

/এমএস/এমওএফ/
সম্পর্কিত
সর্বোচ্চ পর্যায়ের নির্দেশে সিরাজগঞ্জ অফিসে হামলা: মির্জা ফখরুল
সর্বোচ্চ পর্যায়ের নির্দেশে সিরাজগঞ্জ অফিসে হামলা: মির্জা ফখরুল
ঊনসত্তরের গণঅভ্যুত্থান একাত্তরের ড্রেস রিহার্সাল: মেনন
ঊনসত্তরের গণঅভ্যুত্থান একাত্তরের ড্রেস রিহার্সাল: মেনন
ইসি গঠনের দায়িত্ব মির্জা ফখরুলকে দিলেই বিএনপি খুশি হবে: তথ্যমন্ত্রী
ইসি গঠনের দায়িত্ব মির্জা ফখরুলকে দিলেই বিএনপি খুশি হবে: তথ্যমন্ত্রী
গণতন্ত্রকে নস্যাৎ করতে নানামুখী ষড়যন্ত্রে লিপ্ত বিএনপি: ওবায়দুল কাদের
গণতন্ত্রকে নস্যাৎ করতে নানামুখী ষড়যন্ত্রে লিপ্ত বিএনপি: ওবায়দুল কাদের
সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
সর্বোচ্চ পর্যায়ের নির্দেশে সিরাজগঞ্জ অফিসে হামলা: মির্জা ফখরুল
আজ বিকালে সংবাদ সম্মেলনসর্বোচ্চ পর্যায়ের নির্দেশে সিরাজগঞ্জ অফিসে হামলা: মির্জা ফখরুল
ঊনসত্তরের গণঅভ্যুত্থান একাত্তরের ড্রেস রিহার্সাল: মেনন
ঊনসত্তরের গণঅভ্যুত্থান একাত্তরের ড্রেস রিহার্সাল: মেনন
ইসি গঠনের দায়িত্ব মির্জা ফখরুলকে দিলেই বিএনপি খুশি হবে: তথ্যমন্ত্রী
ইসি গঠনের দায়িত্ব মির্জা ফখরুলকে দিলেই বিএনপি খুশি হবে: তথ্যমন্ত্রী
গণতন্ত্রকে নস্যাৎ করতে নানামুখী ষড়যন্ত্রে লিপ্ত বিএনপি: ওবায়দুল কাদের
গণতন্ত্রকে নস্যাৎ করতে নানামুখী ষড়যন্ত্রে লিপ্ত বিএনপি: ওবায়দুল কাদের
বহিষ্কার-অব্যাহতির প্রভাব নিয়ে চিন্তিত বিএনপি!
বহিষ্কার-অব্যাহতির প্রভাব নিয়ে চিন্তিত বিএনপি!
© 2022 Bangla Tribune