X
বৃহস্পতিবার, ০৬ মে ২০২১, ২৩ বৈশাখ ১৪২৮

সেকশনস

আদালতের নির্দেশের পর বাবার বাড়িতে ফেরদৌস ওয়াহিদের দুই ভাতিজি

আপডেট : ২৭ অক্টোবর ২০২০, ০১:৪৪

ছবি: ইন্টারনেট থেকে সংগ্রহ উচ্চ আদালতের নির্দেশের পর সংগীতশিল্পী ফেরদৌস ওয়াহিদের দুই ভাতিজি তাদের বাবা মরহুম মোস্তফা জগলুল ওয়াহিদের গুলশানের বাসায় ফিরতে পেরেছেন। মুশফিকা মোস্তফা বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘আমরা বাবার বাসায় উঠেছি। এবার বাসায় উঠতে পুলিশ সহযোগিতা করেছেন। উচ্চ আদালতের কাছে ন্যায়বিচার পেয়েছি। সংশ্লিষ্ট সবাইকে ধন্যবাদ।’

সোমবার (২৬ অক্টোবর) রাত সাড়ে ৯টার দিকে দুই বোন মুশফিকা মোস্তফা ও মোবাশশারা মোস্তফা তাদের বাসায় ফেরেন। এর আগে তারা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে অভিযোগ করে জানান, বাবার দ্বিতীয় স্ত্রী তাদের বাসায় উঠতে দিচ্ছে না। বিষয়টি আদালতের দৃষ্টিগোচর হলে আদালত স্বতঃপ্রণোদিত হয়ে এই আদেশ দেন।

গুলশান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল হাসান বলেন, ‘আদালতের আদেশ প্রতিপালন করে দুই বোনকে তাদের বাবার বাসায় উঠিয়ে দিয়ে এসেছি এবং বাড়ির সামনে পর্যাপ্ত নিরাপত্তার ব্যবস্থা করেছি।’

কয়েকটি গণমাধ্যমে এ বিষয়ে প্রকাশিত প্রতিবেদন নজরে আনার পর সোমবার সন্ধ্যা ৭টা ১৫ মিনিটে বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি আহমেদ সোহেলের সমন্বয়ে গঠিত ভার্চুয়াল হাইকোর্ট বেঞ্চ স্বতঃপ্রণোদিত হয়ে এই আদেশ দেন।

ওই আদেশে বলা হয়, মেয়ে দুই জনকে সোমবার রাতেই ওই বাড়িতে প্রবেশ ও অবস্থান নিশ্চিত করার পর রাতেই গুলশান থানার ওসি সুপ্রিম কোর্টের স্পেশাল অফিসারকে টেলিফোনে অগ্রগতি প্রতিবেদন দেবেন। এছাড়া ১ নভেম্বর পর্যন্ত ওই বাসায় দুই বোনের নিরাপত্তা নিশ্চিত করবেন। পাশাপাশি গুলশান থানার ওসিসহ ১ নভেম্বর দুই মেয়ে এবং ওই বাড়িতে থাকা আঞ্জু কাপুরকে হাইকোর্টে হাজির হতে বলা হয়েছে।

এর আগে কয়েকটি গণমাধ্যমে এই সংক্রান্ত সংবাদ প্রকাশিত হয়। ওইসব প্রতিবেদনে বলা হয়, প্রায় ১০ কাঠা জমির ওপর বাড়িটি। গৃহকর্তার মৃত্যুর পর মালিকানা নিয়ে বিরোধে তার দুই মেয়ে অবস্থান নিয়েছেন বাড়ির সামনে। ওই দুই বোনের দাবি, বাড়ির দখল বাবার দ্বিতীয় স্ত্রী আঞ্জু কাপুরের হাতে। তিনি কিছুতেই ওই বাড়িতে তাদের ঢুকতে দিচ্ছেন না।

মুশফিকা গণমাধ্যমকে বলেন, ‘১৯৮৪ সালে তার বাবা মাকে নিয়ে গুলশানের এই বাসাতেই সংসার শুরু করেছিলেন। তাদের জন্ম এই বাড়িতে। ২০০৫ সালে তাদের মা-বাবার বিচ্ছেদ হয়। পরে আঞ্জু কাপুর নামে এক ভারতীয় নারীকে তাদের বাবা বিয়ে করেন। তিনি একাই এখন এই বাড়ির ভোগদখল করছেন।’

প্রসঙ্গত, গত ১০ অক্টোবর মোস্তফা জগলুল মারা যান। মোস্তফা জগলুল ওয়াহিদ পেশায় পাইলট ছিলেন। ভাই-বোনদের মধ্যে শুধু সংগীতশিল্পী ফেরদৌস ওয়াহিদ ছাড়া আর কেউ বাংলাদেশে নেই।

আরও পড়ুন: সংগীতশিল্পী ফেরদৌস ওয়াহিদের দুই ভাতিজিকে বাসায় প্রবেশ নিশ্চিতের নির্দেশ

/এসএইচ/এনএস/এমওএফ/

সম্পর্কিত

সকাল থেকে শহরের ভেতরে গণপরিবহন চলবে

সকাল থেকে শহরের ভেতরে গণপরিবহন চলবে

প্রধানমন্ত্রী মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন: আইনমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন: আইনমন্ত্রী

দেশে বেড়েছে মোবাইল সংযোগ ও ইন্টারনেট ব্যবহারকারী

দেশে বেড়েছে মোবাইল সংযোগ ও ইন্টারনেট ব্যবহারকারী

অডিও ফাঁসকারীদের আইনের আওতায় আনতে আইনি নোটিশ

অডিও ফাঁসকারীদের আইনের আওতায় আনতে আইনি নোটিশ

রেলপথে ভারত থেকে আসছে ৫০ হাজার টন চাল

রেলপথে ভারত থেকে আসছে ৫০ হাজার টন চাল

জাম্বিয়ায় সামরিক কূটনীতি নিয়ে বক্তব্য রাখলেন জেনারেল আজিজ

জাম্বিয়ায় সামরিক কূটনীতি নিয়ে বক্তব্য রাখলেন জেনারেল আজিজ

বেদের ছদ্মবেশে ইয়াবার কারবার

বেদের ছদ্মবেশে ইয়াবার কারবার

সাংবাদিক নির্যাতনকারী ফৌজদারি মামলার আসামি ফের স্বপদে বহাল!

সাংবাদিক নির্যাতনকারী ফৌজদারি মামলার আসামি ফের স্বপদে বহাল!

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের গাছ কাটার প্রতিবাদে মানববন্ধন

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের গাছ কাটার প্রতিবাদে মানববন্ধন

এফবিসিসিআই’র সভাপতি হচ্ছেন জসিম, পরিচালকরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত

এফবিসিসিআই’র সভাপতি হচ্ছেন জসিম, পরিচালকরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত

গণমাধ্যমের জন্য ‘নৈতিক নীতিমালা’ প্রণয়ন চেয়ে আইনি নোটিশ

গণমাধ্যমের জন্য ‘নৈতিক নীতিমালা’ প্রণয়ন চেয়ে আইনি নোটিশ

সর্বশেষ

বাংলাদেশ থেকে কৃষি শ্রমিক নিতে চায় গ্রিস

বাংলাদেশ থেকে কৃষি শ্রমিক নিতে চায় গ্রিস

রিয়াল মাদ্রিদকে বিদায় করে ফাইনালে চেলসি

রিয়াল মাদ্রিদকে বিদায় করে ফাইনালে চেলসি

যে চরিত্র বদলে যায়, সেটাই চাই: কঙ্কনা সেন

যে চরিত্র বদলে যায়, সেটাই চাই: কঙ্কনা সেন

ছেলেদের জন্য বিশ্বরঙের ঈদ আয়োজন

ছেলেদের জন্য বিশ্বরঙের ঈদ আয়োজন

পশ্চিমবঙ্গের নির্বাচন নিয়ে যা বললেন বাংলাদেশের রাজনীতিকরা

পশ্চিমবঙ্গের নির্বাচন নিয়ে যা বললেন বাংলাদেশের রাজনীতিকরা

নাতনির সামনে চাকায় পিষ্ট দাদি

নাতনির সামনে চাকায় পিষ্ট দাদি

শহর ভীষণ অকৃতজ্ঞ

শহর ভীষণ অকৃতজ্ঞ

লাল কার্ডের ম্যাচে মুক্তিযোদ্ধাকে হারালো শেখ জামাল

লাল কার্ডের ম্যাচে মুক্তিযোদ্ধাকে হারালো শেখ জামাল

সকাল থেকে শহরের ভেতরে গণপরিবহন চলবে

সকাল থেকে শহরের ভেতরে গণপরিবহন চলবে

খালেদা জিয়ার আবেদন ইতিবাচকভাবে দেখছি: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

খালেদা জিয়ার আবেদন ইতিবাচকভাবে দেখছি: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

পণ্য চালান দ্রুত খালাসে বন্দর কর্তৃপক্ষের সহযোগিতা চায় বিজিএমইএ

পণ্য চালান দ্রুত খালাসে বন্দর কর্তৃপক্ষের সহযোগিতা চায় বিজিএমইএ

প্রাইম ব্যাংকে যোগ দিয়েছেন জিয়াউর রহমান

প্রাইম ব্যাংকে যোগ দিয়েছেন জিয়াউর রহমান

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সকাল থেকে শহরের ভেতরে গণপরিবহন চলবে

সকাল থেকে শহরের ভেতরে গণপরিবহন চলবে

অডিও ফাঁসকারীদের আইনের আওতায় আনতে আইনি নোটিশ

অডিও ফাঁসকারীদের আইনের আওতায় আনতে আইনি নোটিশ

রেলপথে ভারত থেকে আসছে ৫০ হাজার টন চাল

রেলপথে ভারত থেকে আসছে ৫০ হাজার টন চাল

জাম্বিয়ায় সামরিক কূটনীতি নিয়ে বক্তব্য রাখলেন জেনারেল আজিজ

জাম্বিয়ায় সামরিক কূটনীতি নিয়ে বক্তব্য রাখলেন জেনারেল আজিজ

বেদের ছদ্মবেশে ইয়াবার কারবার

বেদের ছদ্মবেশে ইয়াবার কারবার

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের গাছ কাটার প্রতিবাদে মানববন্ধন

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের গাছ কাটার প্রতিবাদে মানববন্ধন

গণমাধ্যমের জন্য ‘নৈতিক নীতিমালা’ প্রণয়ন চেয়ে আইনি নোটিশ

গণমাধ্যমের জন্য ‘নৈতিক নীতিমালা’ প্রণয়ন চেয়ে আইনি নোটিশ

সরকারি খরচে হজে পাঠানোর নামে প্রতারণা, গ্রেফতার ১

সরকারি খরচে হজে পাঠানোর নামে প্রতারণা, গ্রেফতার ১

মুনিয়ার মৃত্যু: নিরপেক্ষ তদন্ত চায় মহিলা আইনজীবী সমিতি

মুনিয়ার মৃত্যু: নিরপেক্ষ তদন্ত চায় মহিলা আইনজীবী সমিতি

© 2021 Bangla Tribune