সেকশনস

জন্মহার বাড়াতে আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স ব্যবহার করবে জাপান

আপডেট : ১০ ডিসেম্বর ২০২০, ১০:২৩

জাপানে জন্মহার যেভাবে কমছে তা ঠেকাতে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার প্রযুক্তির পেছনে অর্থ ঢালবে সরকার। লোকজন যাতে তাদের পছন্দের জীবনসঙ্গী খুঁজে বের করতে পারে, সেজন্যে এই কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা বা আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্সকে কাজে লাগানো হবে।

জাপানে যেসব স্থানীয় সরকার ইতোমধ্যে এরকম প্রকল্প চালাচ্ছে বা শুরু করতে যাচ্ছে, সরকার আগামী বছর থেকে সেগুলোকে সহায়তা দেবে।

গত বছর জাপানে জন্ম নিয়েছিল মাত্র ৮ লাখ ৬৫৪ হাজার শিশু। এটি দেশটিতে নিম্ন জন্মহারের ক্ষেত্রে এক নতুন রেকর্ড।

বিশ্বে যেসব দেশে জন্ম হার সবচেয়ে কম, জাপান তার একটি। সেখানে জন্মহার কমছে বহু বছর ধরে। ফলে এখন জাপান মূলত প্রবীণদের দেশে পরিণত হয়েছে।

এই ধারা পাল্টানোর জন্য সরকার চেষ্টা করছে অনেক বছর ধরে। আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স বা কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাকে কাজে লাগানোর উদ্যোগ সে রকম একটি পদক্ষেপ।

আগামী বছর জাপানের কেন্দ্রীয় সরকার এ খাতে স্থানীয় সরকারগুলোর জন্য দুই বিলিয়ন ইয়েন বা ১ কোটি ৯০ লাখ ডলার বরাদ্দ করেছে।

জাপানে অনেক স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠান ম্যাচ-মেকিং বা ঘটকালি সেবা দিয়ে থাকে। কোনও কোনও এলাকার কর্তৃপক্ষ এজন্য এখন আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স ব্যবহার করছে। যারা জীবনসঙ্গী খুঁজছেন, তাদের যে ফর্মটি পূরণ করতে হয়, আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স দিয়ে সেটি বিশ্লেষণ করে এই কাজ অনেক ভালোভাবে করা যাবে বলে মনে করা হচ্ছে।

এখন যেসব ব্যবস্থা চালু আছে, সেগুলোর ঘটকালি দক্ষতা খুব সীমিত। সম্ভাব্য পাত্র-পাত্রী খোঁজার সময় এখানে কেবল বয়স বা আয়ের সীমাকে বিবেচনায় নেওয়া হয়। একেবারে যে রকম সঙ্গী কেউ খুঁজছেন, কেবল সেরকম কেউ থাকলেই তাকে সার্চ রেজাল্টে খুঁজে পাওয়া যায়।

জাপানের স্থানীয় গণমাধ্যমের খবরে বলা হচ্ছে, সরকারের এই তহবিল যোগানো হবে আরও উন্নত প্রযুক্তি তৈরির জন্য। যেখানে পাত্র-পাত্রী খোঁজার ক্ষেত্রে কারও শখ ও মূল্যবোধের মতো বিষয়গুলোকেও বিবেচনায় নেওয়া যাবে।

সরকারের একজন মন্ত্রী সংবাদমাধ্যমকে বলেন, ‘যেসব স্থানীয় কর্তৃপক্ষ আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স প্রযুক্তি ব্যবহার করে ঘটকালির সেবা চালু করেছে বা করতে যাচ্ছে, আমরা বিশেষ করে তাদেরকেই সহায়তা দেওয়ার পরিকল্পনা করছি। আশা করি এ ধরনের সহায়তার মাধ্যমে আমরা জাপানের জন্মহার কমার বর্তমান ধারাটি বদলে দিতে পারবো।’

২০১৭ সালে জাপানের জনসংখ্যা যেখানে ছিল ১২ কোটি ৮০ লাখ, সেখান থেকে এই শতকের শেষে তা ৫ কোটি ৩০ লাখে নেমে আসবে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

জাপানে কর্মক্ষম মানুষের সংখ্যা কমছে, অথচ বাড়ছে অবসরে যাওয়া প্রবীণ মানুষের সংখ্যা। এ অবস্থায় কিভাবে সরকারের বাড়তে থাকা জনকল্যাণ ব্যয়ের খরচ মেটানো যাবে, সেটা নিয়ে নীতিনির্ধারকরা এখন চিন্তিত।

সাচিকো হরিগুচি হচ্ছেন জাপানের টেম্পল বিশ্ববিদ্যালয়ের সামাজিক-সাংস্কৃতিক এবং চিকিৎসা নৃতত্ত্ববিদ। তিনি মনে করেন, আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্সে টাকা জোগানোর চেয়ে অনেক ভালো উপায় সরকারের সামনে আছে জন্মহার বাড়ানোর জন্য। যেমন নিম্ন আয়ের তরুণ-তরুণীদের সহায়তা দেওয়া।

এক্ষেত্রে তিনি সাম্প্রতিক এক গবেষণার প্রতি দৃষ্টি আকর্ষণ করছেন। এতে বলা হচ্ছে, জাপানে প্রাপ্তবয়স্ক তরুণদের মধ্যে রোমান্টিক সম্পর্কের ব্যাপারে অনাগ্রহ এবং তাদের নিম্ন আয়ের মধ্যে একটা সম্পর্ক আছে।

ড. হরিগুচির ভাষায়, ‘যদি তারা কারও সঙ্গে সম্পর্ক গড়তে না চায়, তাহলে সেখানে ঘটকালি করে কোনও লাভ হবে না।’

তিনি বলেন, ‘আমাদের যদি প্রযুক্তির ওপর নির্ভর করতেই হয়, তাহলে ঘরের কাজকর্ম কিংবা শিশুদের দেখাশোনা করতে পারে সে রকম আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স রোবটই বরং বেশি কাজে দেবে।’

জাপানে যে কর্মরত মায়েদের কোনও রকম সহায়তা দেওয়া হয় না, বিশ্লেষকরা বহুদিন ধরে তার প্রতি দৃষ্টি আকর্ষণ করছেন। দেশটিতে আশা করা হয় যে, একজন নারী তার চাকরির পাশাপাশি ঘরের সব কাজকর্ম সামলাবেন এবং শিশুদের বড় করবেন।

সরকার বলছে, তারা জাপানে মেয়েরা যাতে আরও বেশি সংখ্যায় পূর্ণকালীন চাকুরিতে আসে, সেটিকে উৎসাহিত করতে চায়। কিন্তু সাম্প্রতিককালে দেশটিতে কর্মক্ষেত্রে নারী-পুরুষের বৈষম্য আরও বেড়েছে।

ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক ফোরামের ২০১৯ সালের তথ্য অনুযায়ী, লিঙ্গ সমতার দিক থেকে বিশ্বের ১৫৩টি দেশের মধ্যে জাপানের অবস্থান ১২১। আগের বছরের তুলনায় জাপানের অবস্থান আরও ১১ ধাপ নিচে নেমে গেছে। সূত্র: বিবিসি।

/এমপি/

সম্পর্কিত

মৌলবাদীদের সঙ্গে জোট নিয়ে কংগ্রেসে বিরোধ

মৌলবাদীদের সঙ্গে জোট নিয়ে কংগ্রেসে বিরোধ

যুক্তরাজ্যের টিকা সংক্রান্ত তথ্য অন্যদেরও কাজে লাগবে: অ্যাস্ট্রাজেনেকা

যুক্তরাজ্যের টিকা সংক্রান্ত তথ্য অন্যদেরও কাজে লাগবে: অ্যাস্ট্রাজেনেকা

বামফ্রন্টের প্রার্থী তালিকা প্রকাশ সোমবার

বামফ্রন্টের প্রার্থী তালিকা প্রকাশ সোমবার

যুক্তরাষ্ট্রের পর এবার জার্মানিতেও সৌদি যুবরাজের বিরুদ্ধে মামলা

যুক্তরাষ্ট্রের পর এবার জার্মানিতেও সৌদি যুবরাজের বিরুদ্ধে মামলা

ভ্যাকসিন নিয়ে ভুল তথ্য দিলে অ্যাকাউন্ট বন্ধ করছে টুইটার

ভ্যাকসিন নিয়ে ভুল তথ্য দিলে অ্যাকাউন্ট বন্ধ করছে টুইটার

যে কারণে ভারতে ১৫০ দিন কারাবন্দি এক মুসলিম সাংবাদিক

যে কারণে ভারতে ১৫০ দিন কারাবন্দি এক মুসলিম সাংবাদিক

চীনের শীর্ষ ধনীর খেতাব হারালেন জ্যাক মা

চীনের শীর্ষ ধনীর খেতাব হারালেন জ্যাক মা

সর্বশেষ

৩ মার্চ ১৯৭১: স্বাধীন ও সার্বভৌম বাংলাদেশ ঘোষণা

৩ মার্চ ১৯৭১: স্বাধীন ও সার্বভৌম বাংলাদেশ ঘোষণা

সাতছড়ি উদ্যানে ফের অবৈধ অস্ত্রের সন্ধানে অভিযান

সাতছড়ি উদ্যানে ফের অবৈধ অস্ত্রের সন্ধানে অভিযান

জমিদার রাজেন্দ্র বাবুর বাড়ি সংরক্ষণের দাবিতে মানববন্ধন

জমিদার রাজেন্দ্র বাবুর বাড়ি সংরক্ষণের দাবিতে মানববন্ধন

বিশ্ব বন্যপ্রাণী দিবস আজ

দখল আর দূষণে অনিরাপদ প্রাণিকুল

শিশু সূচি হত্যা: মায়ের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি

শিশু সূচি হত্যা: মায়ের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি

মোদির সফর চূড়ান্ত করতে ঢাকা আসছেন জয়শঙ্কর

মোদির সফর চূড়ান্ত করতে ঢাকা আসছেন জয়শঙ্কর

ফুলগাজী ইউপি চেয়ারম্যান বরখাস্ত

ফুলগাজী ইউপি চেয়ারম্যান বরখাস্ত

রাশিয়ার ওপর নিষেধাজ্ঞা যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপীয় ইউনিয়নের

রাশিয়ার ওপর নিষেধাজ্ঞা যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপীয় ইউনিয়নের

স্ত্রীর প্রাইভেট কার নিজের নামে করায় ব্যবসায়ী পিটারের কারাদণ্ড

স্ত্রীর প্রাইভেট কার নিজের নামে করায় ব্যবসায়ী পিটারের কারাদণ্ড

ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা

ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা

সেতুর গার্ডার ভেঙে পড়ায় দুটি তদন্ত কমিটি

সেতুর গার্ডার ভেঙে পড়ায় দুটি তদন্ত কমিটি

সিটিও ফোরামের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করতে বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশ

সিটিও ফোরামের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করতে বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশ

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মৌলবাদীদের সঙ্গে জোট নিয়ে কংগ্রেসে বিরোধ

মৌলবাদীদের সঙ্গে জোট নিয়ে কংগ্রেসে বিরোধ

যুক্তরাজ্যের টিকা সংক্রান্ত তথ্য অন্যদেরও কাজে লাগবে: অ্যাস্ট্রাজেনেকা

যুক্তরাজ্যের টিকা সংক্রান্ত তথ্য অন্যদেরও কাজে লাগবে: অ্যাস্ট্রাজেনেকা

বামফ্রন্টের প্রার্থী তালিকা প্রকাশ সোমবার

বামফ্রন্টের প্রার্থী তালিকা প্রকাশ সোমবার

যুক্তরাষ্ট্রের পর এবার জার্মানিতেও সৌদি যুবরাজের বিরুদ্ধে মামলা

যুক্তরাষ্ট্রের পর এবার জার্মানিতেও সৌদি যুবরাজের বিরুদ্ধে মামলা

ভ্যাকসিন নিয়ে ভুল তথ্য দিলে অ্যাকাউন্ট বন্ধ করছে টুইটার

ভ্যাকসিন নিয়ে ভুল তথ্য দিলে অ্যাকাউন্ট বন্ধ করছে টুইটার

যে কারণে ভারতে ১৫০ দিন কারাবন্দি এক মুসলিম সাংবাদিক

যে কারণে ভারতে ১৫০ দিন কারাবন্দি এক মুসলিম সাংবাদিক


[email protected]
© 2021 Bangla Tribune
Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.