সেকশনস

সব শিক্ষকই ১৩তম গ্রেড পাবেন

আপডেট : ১৯ জানুয়ারি ২০২১, ১৬:৫৭

শিক্ষাগত যোগ্যতা যাই হোক সব সহকারী শিক্ষকই ১৩তম গ্রেড পাবেন। ২০১৯ সালের বিধিমালা জারি আগে নিয়োগ পাওয়া শিক্ষকদের উচ্চতম (১৩তম) গ্রেড পেতে কোনও সমস্যা নেই। শিগগিরই অর্থ বিভাগ থেকে স্পষ্টীকরণ চিঠি ইস্যু করা হবে। ফলে গ্রেড পেতে শিক্ষকদের আর হয়রানি হতে হবে না।

জানতে চাইলে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের মহাপরিচালক আলমগীর মুহম্মদ মনসুরুল আলম বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘সব শিক্ষকই ১৩তম গ্রেড পাবেন। ব্যাখ্যা হচ্ছে— শর্তে স্নাতক ডিগ্রি/অভিজ্ঞতা বলা রয়েছে। ২০১৯ সালের নিয়োগবিধি অনুযায়ী যারা প্রথমবারর মতো নিয়োগ পাওয়া শিক্ষকদের স্নাতক না হলে ১৩তম গ্রেড পাবেন না। কিন্তু ২০১৯ সালের নিয়োগবিধি জারির আগে যেসব শিক্ষক নিয়োগ বিধিতে নিয়োগ পেয়েছেন, তাদের ক্ষেত্রে এই শর্ত প্রযোজ্য নয়। ’

আরও পড়ুন: প্রাথমিকে অনলাইন বদলি শুরু ফেব্রুয়ারিতে

অর্থ বিভাগের স্পষ্টীকরণ নির্দেশনার বিষয়ে আলমগীর মুহম্মদ মনসুরুল আলম বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘অনেক শিক্ষক উদ্বিগ্ন। আমি অর্থ বিভাগের সঙ্গে কথা বলেছি। এটা আগেই জারি হওয়ার কথা ছিল। আমি অর্থ বিভাগকে বলেছি একটি স্পষ্টীকরণ চিঠি দেওয়ার জন্য। তারা দ্রুত স্পষ্টীকরণ চিঠি দেবে।’

আইবাস প্লাস প্লাস সফটওয়ারে ১৩তম গ্রেডে বেতন ফিক্সেশন বিষয়ে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের মহাপরিচালক বলেন, ‘১৩তম গ্রেডের উচ্চধাপে বেতন ফিক্সেশন নিয়ে আইবাস প্লাস প্লাস সফটওয়ারে সমস্যা হচ্ছে। তারা সমস্যা সমাধান করেছে। এখনও লাইভে দিতে পারছে না। কারণ এই মাসের বেতন ইএফটির মাধ্যমে দেবে। অর্থ বিভাগ বলেছে ১৩তম গ্রেডের বিষয়টি এখন অ্যাড্রেস করতে গেলে এই মাসে ইএফটিতে বেতন দেওয়া যাবে না। সে কারণে ইএফটিতে বেতন দেওয়ার পর এক সপ্তাহের মধ্যে সফটওয়ারে অপশনটি লাইভ করবে। তখন নতুনভাবে ফিক্সেশন করলে উচ্চধাপে বেতন পাবেন এবং উচ্চধাপের যে অংশ ইএফটির মাধ্যমে দেওয়া যাচ্ছে না তা এরিয়ার হিসেবে পাবেন শিক্ষকরা। ’

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ে সূত্রে জানা গেছে, ২০১৯ সালের নতুন নিয়োগ বিধিমালায় সহকারী শিক্ষকদের শিক্ষাগত যোগ্যতায় বলা আছে কমপক্ষে দ্বিতীয় শ্রেণির স্নাতক ডিগ্রি থাকতে হবে। এ কারণে কোনও কোনও উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তারা উচ্চতর গ্রেড দেওয়ার সুপারিশ না করে শিক্ষকদের জানিয়ে দিচ্ছেন, যাদের শিক্ষাগত যোগ্যতা দ্বিতীয় শ্রেণির স্নাতক নেই, তারা উচ্চতর গ্রেড পাবেন না।

২০১৯ সালের নতুন বিধিমালা তৈরি হলেও এখন পর্যন্ত ওই বিধিমালার আলোকে সহকারী শিক্ষক নিয়োগ হয়নি। গ্রেড নির্ধারণ হচ্ছে আগের বিধিমালা অনুযায়ী নিয়োগ পাওয়া শিক্ষকদের। এছাড়া ২০১৩ সালের বিধিমালার অধীন নিষ্পন্ন সব কাজ ২০১৯ সালের এই বিধিমালার অধীন নিষ্পন্ন হয়েছে বলে উল্লেখ আছে।
এদিকে ২০১৯ সালের নতুন বিধিমালার ‘রহিত ও হেফাজত’ সংক্রান্ত বিষয়ে ১০ ধারার ১ উপধারায় বলা হয়, “এই বিধিমালা কার্যকর হইবার সঙ্গে সঙ্গে ‘সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক নিয়োগ বিধিমালা, ২০১৩’ এতদ্বারা রহিত হইবে”। আর ২ উপধারায় বলা হয়, ‘উপরোক্ত রহিতকরণ সত্ত্বেও উক্ত বিধিমালার অধীন যে সকল কার্যক্রম নিষ্পন্ন হইয়াছে তাহা এই বিধিমালার অধীন সম্পন্ন হইয়াছে বলিয়া গণ্য হইবে এবং এই বিধিমালা জারি তারিখে অনিষ্পন্ন কার্যাদি, যতদূর সম্ভব, এই বিধিমালার অধীন নিষ্পন্ন করিতে হইবে।’

ফলে ২০১৯ সালের নিয়োগবিধির আগে যে যোগ্যতার শিক্ষকই নিয়োগ দেওয়া হোক না কেন নতুন বিধিমালার অধীনে তা বৈধ।

উচ্চতর গ্রেডের ক্ষেত্রে শিক্ষাগত যোগ্যতার বিষয়টি ২০১৯ সালের বিধিমালার অধীন নিয়োগ পাওয়া শিক্ষকদের জন্য প্রযোজ্য হবে।

সরকারি কর্মচারীদের বেতন-ভাতা দেওয়ার জন্য নির্ধারিত সফটওয়্যার ‘আইবাস প্লাস প্লাস’ মডিউল অনুযায়ী ১৩তম গ্রেডের নিম্নধাপে সহকারী শিক্ষকদের বেতন নির্ধারিত রয়েছে। ফলে ১৩তম গ্রেডের উচ্চধাপে শিক্ষকরা নিজেদের বেতন নির্ধারণ করতে পারছিলেন না।

‘আইবাস প্লাস প্লাস’ সফটওয়্যার মডিউলে ১৩তম গ্রেডের উচ্চ ধাপে বেতন নির্ধারণ সংক্রান্ত বিষয় ইনপুট থাকায় উচ্চতর গ্রেডে শিক্ষকরা বেতন নির্ধারণ করতে পারেননি। পরে অর্থ বিভাগ সফটওয়্যার ‘আইবাস প্লাস প্লাস’ মডিউলের সিস্টেমে প্রাথমিক শিক্ষকদের উচ্চধাপে মূল বেতন নির্ধারণের বিষয়টি সংযোজন করতে সম্মত হয়।

জানুয়ারি মাসের বেতন ইএফটির মাধ্যমে দেওয়ার এক সপ্তাহের মধ্যে বিষয়টি সমাধান হবে। স্থায়ীভাবে শিক্ষকদের সমস্যার সমাধান হবে।

বাংলাদেশ প্রাথমিক বিদ্যালয় সহকারী শিক্ষক সমিতির কেন্দ্রীয় সভাপতি মোহাম্মদ শামছুদ্দীন মাসুদ বলেন, ‘আমাদের অনেক আগেই উচ্চতর গ্রেড দেওয়া হয়েছে। কিন্তু সফটওয়্যার জটিলতার কারণে আজ পর্যন্ত শিক্ষকদের বেতন ফিক্সেশন করা যাচ্ছে না। সফটওয়্যার আপডেট করে সমস্যা সমাধানের উদ্যোগ নেওয়ার জন্য মন্ত্রণালয়কে ধন্যবাদ। আমরা আশা করবো দ্রুত এ বিষয়টির সমাধান হবে।’

/এমআর/

সম্পর্কিত

নারী-পুরুষ সমতা কত দূর?

আন্তর্জাতিক নারী দিবস আজনারী-পুরুষ সমতা কত দূর?

সুজনকে আইনি নোটিশ পাঠাইনি: রকিবুল

সুজনকে আইনি নোটিশ পাঠাইনি: রকিবুল

শেষ মুহূর্তে বেনজেমার গোলে হার এড়ালো রিয়াল মাদ্রিদ

শেষ মুহূর্তে বেনজেমার গোলে হার এড়ালো রিয়াল মাদ্রিদ

বাংলাদেশের হার ছাপিয়ে আলোচনায় পিটারসন

বাংলাদেশের হার ছাপিয়ে আলোচনায় পিটারসন

৮ ইস্যুতে বাংলাদেশ-ভারত সচিব পর্যায়ের বৈঠক আজ

৮ ইস্যুতে বাংলাদেশ-ভারত সচিব পর্যায়ের বৈঠক আজ

শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের অনুদানের তথ্য দেওয়ার সময় বাড়লো

শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের অনুদানের তথ্য দেওয়ার সময় বাড়লো

ইন্টারনেটের গতিতে সুদান-উগান্ডার চেয়েও পিছিয়ে বাংলাদেশ

ইন্টারনেটের গতিতে সুদান-উগান্ডার চেয়েও পিছিয়ে বাংলাদেশ

৯ বছরের শিশুকে ধর্ষণ করে ৬২ বছরের ছোট্ট মিয়া

৯ বছরের শিশুকে ধর্ষণ করে ৬২ বছরের ছোট্ট মিয়া

মোংলায় আসছে ভারতীয় যুদ্ধজাহাজ

মোংলায় আসছে ভারতীয় যুদ্ধজাহাজ

সৈয়দপুরে কুকুরের কামড়ে ৬ জন হাসপাতালে

সৈয়দপুরে কুকুরের কামড়ে ৬ জন হাসপাতালে

৭ মার্চের ভাষণ তুর্কি ভাষায় অনুবাদ

৭ মার্চের ভাষণ তুর্কি ভাষায় অনুবাদ

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন সংশোধন করতে হবে: ইসলামী আন্দোলন

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন সংশোধন করতে হবে: ইসলামী আন্দোলন

সর্বশেষ

কার্টুনিস্ট কিশোরের প্রয়োজন দুটো অপারেশন

কার্টুনিস্ট কিশোরের প্রয়োজন দুটো অপারেশন

নারী দিবসের উদযাপন হোক নিজের মতো

নারী দিবসের উদযাপন হোক নিজের মতো

নারী-পুরুষ সমতা কত দূর?

আন্তর্জাতিক নারী দিবস আজনারী-পুরুষ সমতা কত দূর?

বঙ্গবন্ধু আমাদের মুক্তি ও স্বাধীনতার প্রতীক: পর্যটন প্রতিমন্ত্রী

বঙ্গবন্ধু আমাদের মুক্তি ও স্বাধীনতার প্রতীক: পর্যটন প্রতিমন্ত্রী

সুজনকে আইনি নোটিশ পাঠাইনি: রকিবুল

সুজনকে আইনি নোটিশ পাঠাইনি: রকিবুল

নারীর মৃত্যুতে অক্সফোর্ড ভ্যাকসিনের একটি ব্যাচ বাতিল করলো অস্ট্রিয়া

নারীর মৃত্যুতে অক্সফোর্ড ভ্যাকসিনের একটি ব্যাচ বাতিল করলো অস্ট্রিয়া

‘৭ মার্চের ভাষণে উজ্জীবিত হয়ে মানুষ স্বাধীনতা যুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়েছিল’

‘৭ মার্চের ভাষণে উজ্জীবিত হয়ে মানুষ স্বাধীনতা যুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়েছিল’

ব্যাংক খাতে ৯ বছরে অনিয়ম বেড়েছে ১৬ গুণের বেশি

ব্যাংক খাতে ৯ বছরে অনিয়ম বেড়েছে ১৬ গুণের বেশি

৭ মার্চের ভাষণ সারা বিশ্বে স্বাধীনতার প্রামাণ্য দলিল: তাপস

৭ মার্চের ভাষণ সারা বিশ্বে স্বাধীনতার প্রামাণ্য দলিল: তাপস

শেষ মুহূর্তে বেনজেমার গোলে হার এড়ালো রিয়াল মাদ্রিদ

শেষ মুহূর্তে বেনজেমার গোলে হার এড়ালো রিয়াল মাদ্রিদ

সমাবেশের বক্তব্যের জন্য বিএনপি নেতা মিনুর দুঃখ প্রকাশ

সমাবেশের বক্তব্যের জন্য বিএনপি নেতা মিনুর দুঃখ প্রকাশ

উইঘুর গণহত্যার অভিযোগ  অযৌক্তিক ও মিথ্যা: চীন

উইঘুর গণহত্যার অভিযোগ  অযৌক্তিক ও মিথ্যা: চীন

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের অনুদানের তথ্য দেওয়ার সময় বাড়লো

শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের অনুদানের তথ্য দেওয়ার সময় বাড়লো

৭ মার্চের ভাষণ তুর্কি ভাষায় অনুবাদ

৭ মার্চের ভাষণ তুর্কি ভাষায় অনুবাদ

প্রকাশ্যে ক্ষমা চাইতে বিসিবি পরিচালক সুজনকে আইনি নোটিশ

প্রকাশ্যে ক্ষমা চাইতে বিসিবি পরিচালক সুজনকে আইনি নোটিশ

আপন জুয়েলার্সের মালিকের বিরুদ্ধে করা রমনা থানার মামলাটি বিচারের জন্য প্রস্তুত

আপন জুয়েলার্সের মালিকের বিরুদ্ধে করা রমনা থানার মামলাটি বিচারের জন্য প্রস্তুত

আপন জুয়েলার্সের মালিকের বিরুদ্ধে করা রমনা থানার মামলাটি বিচারের জন্য প্রস্তুত

আপন জুয়েলার্সের মালিকের বিরুদ্ধে করা রমনা থানার মামলাটি বিচারের জন্য প্রস্তুত

স্বাস্থ্য অধিদফতর ও কারা অধিদফতরের ডিজিকে আদালত অবমাননার নোটিশ

স্বাস্থ্য অধিদফতর ও কারা অধিদফতরের ডিজিকে আদালত অবমাননার নোটিশ

৪১তম বিসিএস পরীক্ষার প্রস্তুতি বিষয়ে নির্দেশনা দিয়েছে পিএসসি

৪১তম বিসিএস পরীক্ষার প্রস্তুতি বিষয়ে নির্দেশনা দিয়েছে পিএসসি

বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থী ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় নেহার জামিন নামঞ্জুর

বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থী ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় নেহার জামিন নামঞ্জুর

দুদক কর্মকর্তার ‘ঘুষ দাবির’ কললিস্ট দাখিলের নির্দেশ

দুদক কর্মকর্তার ‘ঘুষ দাবির’ কললিস্ট দাখিলের নির্দেশ


[email protected]
© 2021 Bangla Tribune
Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.