X
বুধবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ৬ আশ্বিন ১৪২৮

সেকশনস

জাসিন্ডার নিউ জিল্যান্ডও সৌদি জোটের অস্ত্র সরবরাহকারী?

আপডেট : ৩০ মার্চ ২০২১, ১৮:০৭

নিউ জিল্যান্ড ২০১৮ ও ২০১৯ সালে সংযুক্ত আরব আমিরাতের স্থল বাহিনীর জন্য অস্ত্র রফতানির অনুমোদন দিয়েছিল বলে খবর দিয়েছে সে দেশের রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম। রেডিও নিউ জিল্যান্ডের (আরএনজেড) ওয়েবসাইটে প্রকাশিত মঙ্গলবারের এক প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে,  জাসিন্ডা আর্ডার্ন সরকারের পররাষ্ট্র ও বাণিজ্য মন্ত্রণালয় (এমএফএটি) ২০১৮ ও ২০১৯ সালে এই সিদ্ধান্ত নেয়। বিশ্লেষকদের আশঙ্কা, সৌদি আরবের জোটসঙ্গী আমিরাতকে অস্ত্র দেওয়ার মধ্য দিয়ে নিউ জিল্যান্ড ইয়েমেন যুদ্ধে ভূমিকা রাখছে। তবে দেশটির পররাষ্ট্র দফতরের দাবি, ইয়েমেন যুদ্ধে এগুলো ব্যবহার করা হবে না তা নিশ্চিত করেই রফতানির অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

২০১৫ সাল থেকে ইয়েমেনে হুথি বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে অভিযান চালিয়ে আসছে সৌদি নেতৃত্বাধীন জোট। সংযুক্ত আরব আমিরাত এ জোটেরই অংশ। ছয় বছরেরও বেশি সময় ধরে চলা এ যুদ্ধে প্রাণ হারিয়েছে লাখো মানুষ। অনেকে ভুগছে অপুষ্টিতে। ইয়েমেন যুদ্ধকে জাতিসংঘ বিশ্বের সবচেয়ে ভয়াবহ মানবিক সংকঠ হিসেবে আখ্যা দিয়েছে। জাতিসংঘের হিসাব অনুযায়ী, ইয়েমেনের তিন কোটি জনসংখ্যার মধ্যে ৮০ ভাগেরই জরুরি সহায়তা কিংবা সুরক্ষা প্রয়োজন।

মঙ্গলবার আরএনজেড-এর এক প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছে, তথ্য আইনের আওতায় তারা কিছু সরকারি নথি হাতে পেয়েছে। সেখানে দেখা গেছে ২০১৮ সালে সংযুক্ত আরব আমিরাতের স্থল বাহিনীর জন্য অস্ত্র রফতানির অনুমতি দিয়েছে সরকার। স্থল বাহিনীর প্রশিক্ষণের জন্য ২০১৮ ও ২০১৯ সালে আর্টিলারি কন্ট্রোল সিস্টেম রফতানিরও অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। তবে কারা এসব অস্ত্র রফতানি করেছে কিংবা কী পরিমাণে সরবরাহ করা হয়েছে এবং এগুলোর মূল্য কত তা প্রকাশ করা হয়নি।

এক মাস আগে পৃথক এক প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছিল, ২০১৬ ও ২০১৮ সালে নিউ জিল্যান্ডের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সৌদি আরবের কাছে সামরিক সরঞ্জাম বিক্রির অনুমোদন দিয়েছিল। সৌদি আরবের নৌ বাহিনীর একটি জাহাজের ইঞ্জিন নিয়ে এয়ার নিউ জিল্যান্ড কোম্পানির কাজ করার ঘটনায় তদন্ত চেয়ে দেশটির প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আরডার্নের নির্দেশের পর ওই অনুমতি দেওয়া হয়।

নিউ জিল্যান্ডের পররাষ্ট্র দফতরের মুখপাত্র বলেন, ‘এমএফএটি নিউ জিল্যান্ড এক্সপোর্ট কন্ট্রোলস কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে জমা পড়া সব আবেদন মূল্যায়ন করেছে। কোনও সরঞ্জাম মানবাধিকার লঙ্ঘনের কাজে ব্যবহার হবে কিনা কিংবা কোনও দেশে রফতানির ক্ষেত্রে ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হওয়ার ঝুঁকি আছে কিনা সেগুলোও মূল্যায়ন করা হয়েছে।’ তবে তা মানতে নারাজ নিউ জিল্যান্ডের পররাষ্ট্র দফতরের সাবেক এক কর্মকর্তা। রফতানি নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কাজ করার অভিজ্ঞতা রয়েছে তার। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ওই সাবেক কর্মকর্তা আরএনজেড-কে বলেন, সৌদি আরবে সামরিক সরঞ্জাম পাঠানো নিয়ে রফতানি কর্তৃপক্ষ যে সাফাই গাইছে তা ‘বাজে কথা’। মন্ত্রণালয় জানেই না এর শেষ কোথায়।

‘যুদ্ধাপরাধে ব্যবহার করা হবে না বলে বিশ্বাস করে সৌদি আরবের সশস্ত্র বাহিনীর একটি অংশের কাছে সামরিক সরঞ্জাম পাঠনোর কথা বলছে নিউ জিল্যান্ড। তবে এর মধ্য দিয়ে যে অন্যায় কাজ তারা করেছে তা কি মুছে ফেলা যাবে?’ প্রশ্ন রাখেন সাবেক ওই কর্মকর্তা।

/এফইউ/বিএ/

সম্পর্কিত

'সতর্ক বার্তা', পারমাণবিক সাবমেরিন ইস্যুতে ফ্রান্সের পাশে জার্মানি

'সতর্ক বার্তা', পারমাণবিক সাবমেরিন ইস্যুতে ফ্রান্সের পাশে জার্মানি

অস্ট্রেলিয়ার পর ফ্রান্সের সঙ্গে সামরিক চুক্তি বাতিল করলো সুইজারল্যান্ড

বিমান ক্রয়ে ক্ষোভ, সুইস প্রেসিডেন্টের সঙ্গে বৈঠক বাতিল করলেন ম্যাঁক্রো

তিন বিশ্ব শক্তির চুক্তিতে পারমাণবিক অস্ত্র প্রতিযোগিতা শুরু হতে পারে: উ. কোরিয়া

আকাস চুক্তির কারণে অস্ত্র প্রতিযোগিতা শুরুর আশঙ্কা উ. কোরিয়ার

ফ্রান্সের সঙ্গে উত্তেজনার মধ্যেই যুক্তরাষ্ট্র সফরে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী

ফ্রান্সের সঙ্গে উত্তেজনার মধ্যেই যুক্তরাষ্ট্র সফরে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী

তালেবানকে বয়কট করবেন না: জাতিসংঘে কাতারের আমির

আপডেট : ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:৩৪

তালেবানকে বয়কট না করতে বিশ্ব নেতাদের প্রতি জোর আহ্বান জানিয়েছেন কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল থানি। মঙ্গলবার (২১ সেপ্টেম্বর) জাতিসংঘ অধিবেশনে যোগ দিয়ে বিশ্ব নেতাদের সামনে তিনি আফগানিস্তানের পরিস্থিতি তুলে ধরেন।

মঞ্চে দাঁড়িয়ে কাতারের আমির উদ্বেগ জানিয়ে বলেন, ‘তালেবানকে প্রত্যাখান করা মানে সংকট আরও তীব্রতর হওয়া। এজন্য সবার উচিত তালেবান গোষ্ঠীর সঙ্গে আলোচনা চালিয়ে যাওয়া। কারণ আলোচনার মাধ্যমেই ইতিবাচক ফলাফল বয়ে আনতে পারে’।  

তালেবান রাজধানী কাবুল দখলের পর বিদেশি সেনা প্রত্যাহার এবং দেশটি থেকে বিশ্বের ক্ষমতাধর দেশগুলো মুখ ফিরিয়ে নেয়। তবে সংকটময় পরিস্থিতিতেও পাশে দাঁড়িয়েছে কাতার। ইতোমধ্যে আফগান জনগণের জন্য ত্রাণ সহায়তাও পাঠিয়েছে দেশটি।

তালেবান সরকার ক্ষমতায় আসায় বিদেশি সহায়তার ওপর নির্ভরশীল আফগানিস্তানে ত্রাণ সহায়তা বন্ধ করে দিয়েছে পশ্চিমা দেশগুলো। এতে দুর্ভিক্ষের মুখোমুখি আফগানরা। এমন পরিস্থিতিতে বিশ্ব সম্প্রদায়কে তালেবান সরকারের পাশে থাকতে আহ্বান জানান আমির শেখ তামিম।

/এলকে/
টাইমলাইন: আফগানিস্তান সংকট
২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:২৮
তালেবানকে বয়কট করবেন না: জাতিসংঘে কাতারের আমির
২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৪:২৫
২০ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২১:২৯
১৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২২:১৮

সম্পর্কিত

‘তালেবানের বিরুদ্ধে দুই দশকের লড়াই বৃথা যায়নি’

‘তালেবানের বিরুদ্ধে দুই দশকের লড়াই বৃথা যায়নি’

তালেবানের সঙ্গে বৈঠক রাশিয়ার

তালেবানের সঙ্গে বৈঠক রাশিয়ার

আফগান মেয়েদের স্কুল নিষিদ্ধ করা হবে অনৈসলামিক: ইমরান খান

আফগান মেয়েদের স্কুল নিষিদ্ধ করা হবে অনৈসলামিক: ইমরান খান

‘তালেবানের বিরুদ্ধে দুই দশকের লড়াই বৃথা যায়নি’

আপডেট : ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৩:৫৮

গত ২০ বছরে আফগানিস্তানের সশস্ত্র গোষ্ঠী তালেবানের বিরুদ্ধে লড়াই ‘বৃথা যায়নি’ বলে দাবি করেছেন ন্যাটো মহাসচিব জেন্স স্টোলটেনবার্গ। তবে দীর্ঘ দুই দশকের লড়াইয়ে ন্যাটোর মিত্রদেরকে উচ্চ মূল্য দিতে হয়েছে বলে জানান তিনি। মঙ্গলবার (২১ সেপ্টেম্বর) জাতিসংঘের বাইরে কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল-জাজিরাকে এক সাক্ষাৎকারে আফগানিস্তানের প্রসঙ্গে এ কথা বলেন ন্যাটো মহাসচিব।

আফগান যুদ্ধে ৩৬০০ মার্কিন ও ন্যাটো সেনা নিহতের বিষয়ে স্টোলটেনবার্গকে প্রশ্ন করা হলে জবাবে বলেন, ‘দীর্ঘ সময়ের যুদ্ধের কারণে আমাদের মিত্রদের চড়া মূল্য দিতে হয়েছে। কিন্তু আমাদের প্রচেষ্টা বিফল ছিল না’।

সন্ত্রাস নির্মুলের যুদ্ধে গত বিশ বছর আফগানিস্তানের মাটিতে কাটাতে হয়েছে ন্যাটোর সেনাদের। এত কিছুর পরও গত ১৫ আগস্ট রাজধানী কাবুল দখলে করে নেয় তালেবান গোষ্ঠী। এ প্রসঙ্গে আল-জাজিরাকে তিনি বলেন, ‘আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াই করতে আমরা আফগানিস্তানে গিয়েছিলাম। আমাদের মিত্রদের বিরুদ্ধে হামলা বন্ধ করতে। গত ২০ বছরে আফগানিস্তান থেকে কোনও সন্ত্রাসী হামলা সংগঠিত হয়নি। আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়, আফগানদের সামজিক ও অর্থনৈতিক অবস্থার উন্নতি ঘটাতে সাহায্য করেছি’।  

তবে, আফগানিস্তান এখন তালেবানের অধীনে চলে যাওয়াকে আফগানদের জন্য ট্রাজেডি এবং হৃদয়বিদারক বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

/এলকে/
টাইমলাইন: আফগানিস্তান সংকট
২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৩:২৩
‘তালেবানের বিরুদ্ধে দুই দশকের লড়াই বৃথা যায়নি’
২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৪:২৫
২০ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২১:২৯
১৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২২:১৮

সম্পর্কিত

তালেবানকে বয়কট করবেন না: জাতিসংঘে কাতারের আমির

তালেবানকে বয়কট করবেন না: জাতিসংঘে কাতারের আমির

তালেবানের সঙ্গে বৈঠক রাশিয়ার

তালেবানের সঙ্গে বৈঠক রাশিয়ার

২-৬ মাসের ব্যবধানে বুস্টার ডোজে বাড়ে কার্যকারিতা: জনসন অ্যান্ড জনসন

২-৬ মাসের ব্যবধানে বুস্টার ডোজে বাড়ে কার্যকারিতা: জনসন অ্যান্ড জনসন

চীন, রাশিয়া ও পাকিস্তানের কূটনীতিকদের সঙ্গে বৈঠক আফগান প্রধানমন্ত্রীর

আপডেট : ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০০:০২

আফগানিস্তানে নিযুক্ত চীন, রাশিয়া ও পাকিস্তানের কূটনীতিকদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন দেশটির তালেবান সরকারের প্রধানমন্ত্রী মোল্লা মুহাম্মাদ হাসসান আখুন্দ। ২১ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার টুইটারে দেওয়া পোস্টে তালেবান কর্মকর্তা আহমাদুল্লাহ মুত্তাকি বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে সংবাদমাধ্যম রেডিও ফ্রি ইউরোপ।

রুশ প্রেসিডেন্টের আফগানিস্তান বিষয়ক বিশেষ দূত জামির কাবুলোভ, পাকিস্তানের বিশেষ প্রতিনিধি মোহাম্মদ সাদিক খান এবং চীনের প্রতিনিধি ইউ জিয়াওয়ং বৈঠকে নিজ নিজ দেশের প্রতিনিধিত্ব করেন।

তালেবান প্রতিনিধি দলে প্রধানমন্ত্রী মোল্লা মুহাম্মাদ হাসসান আখুন্দ ছাড়াও ভারপ্রাপ্ত পররাষ্ট্রমন্ত্রী আমির খান মুত্তাকি এবং ভারপ্রাপ্ত অর্থমন্ত্রী হেদায়েতুল্লাহ বদরি উপস্থিত ছিলেন। তবে তাৎক্ষণিকভাবে বিস্তারিত জানা যায়নি।

যুক্তরাষ্ট্র আফগানিস্তান ছেড়ে যাওয়ার পর রাশিয়া, চীন ও পাকিস্তান অঞ্চলটিতে গুরুত্বপূর্ণ শক্তি হিসেবে আবির্ভূত হয়েছে।

রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছেন, মস্কো ও বেইজিংয়ের নেতৃত্বাধীন জোটের উচিত তালেবানকে প্রভাবিত করা। যাতে করে তারা সন্ত্রাসবাদ ও মাদকপাচার বন্ধের প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়ন করতে পারে। দেশের মানুষের জীবনযাত্রা স্বাভাবিক অবস্থায় ফেরানো এবং নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পারে।

অন্যদিকে এ মাসের গোড়ার দিকেই আফগানিস্তানে প্রায় তিন কোটি ১০ লাখ ডলারের জরুরি সহায়তার ঘোষণা দেয় চীন। বাংলাদেশি মুদ্রায় এর পরিমাণ ২৬৪ কোটি ১৮ লাখ টাকারও বেশি। পাকিস্তানও দেশটিতে বিমানভর্তি ত্রাণসামগ্রী পাঠিয়েছে। তালেবান সরকারের স্বীকৃতি আদায়ে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে দেশটি।

/এমপি/

সম্পর্কিত

তালেবানের সঙ্গে বৈঠক রাশিয়ার

তালেবানের সঙ্গে বৈঠক রাশিয়ার

সাবমেরিন বিতর্কের পর একযোগে কাজ করার অঙ্গীকার মোদি-ম্যাক্রোঁর

সাবমেরিন বিতর্কের পর একযোগে কাজ করার অঙ্গীকার মোদি-ম্যাক্রোঁর

আফগান মেয়েদের স্কুল নিষিদ্ধ করা হবে অনৈসলামিক: ইমরান খান

আফগান মেয়েদের স্কুল নিষিদ্ধ করা হবে অনৈসলামিক: ইমরান খান

তালেবানের সঙ্গে বৈঠক রাশিয়ার

আপডেট : ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২২:৫৮

আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলে তালেবানের সঙ্গে বৈঠক করেছে রাশিয়া। তালেবান প্রতিনিধিদের সঙ্গে এ বৈঠকে অংশ নেন রুশ প্রেসিডেন্টের আফগানিস্তান বিষয়ক বিশেষ দূত জমির কাবুলোভ। স্পুটনিক নিউজের বরাত দিয়ে এক প্রতিবেনে এ খবর জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এএনআই।

তালেবানের অন্যতম মুখপাত্র মোহাম্মদ নাঈম বলেন, বৈঠকে আফগানিস্তানের বিদ্যমান পরিস্থিতি নিয়ে কথা হয়েছে। অর্থনৈতিক অবস্থা নিয়ে আলাপ হয়েছে। দেশের ভবিষ্যৎ নিয়েও আলোচনা হয়েছে। এছাড়া দুই দেশের সম্পর্ক নিয়েও বৈঠকে কথা হয়েছে।

রুশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র মারিয়া জাখারোভা-ও তালেবানের সঙ্গে জমির কাবুলোভের বৈঠকের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

সম্প্রতি রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনও তালেবানকে প্রভাবিত করার ওপর জোর দিয়েছেন। তিনি বলেছেন, মস্কো ও বেইজিংয়ের নেতৃত্বাধীন জোটের উচিত তালেবানকে প্রভাবিত করা। যাতে করে তারা সন্ত্রাসবাদ ও মাদকপাচার বন্ধের প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়ন করতে পারে।

রুশ প্রেসিডেন্ট বলেন, সাংহাই কোঅপারেশন অর্গানাইজেশন (এসসিও)-এর উচিত আফগানিস্তানের নতুন কর্তৃপক্ষকে প্রভাবিত করার সম্ভাব্যতাকে কাজে লাগানো। যাতে করে তারা দেশের মানুষের জীবনযাত্রা স্বাভাবিক অবস্থায় ফেরানো এবং নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পারে।

যুক্তরাষ্ট্র আফগানিস্তান ছেড়ে যাওয়ার পর রাশিয়া ও চীন অঞ্চলটিতে গুরুত্বপূর্ণ শক্তি হিসেবে হাজির হয়েছে।

/এমপি/

সম্পর্কিত

তালেবানকে বয়কট করবেন না, জাতিসংঘে কাতারের আমির

তালেবানকে বয়কট করবেন না, জাতিসংঘে কাতারের আমির

‘তালেবানের বিরুদ্ধে দুই দশকের লড়াই বৃথা যায়নি’

‘তালেবানের বিরুদ্ধে দুই দশকের লড়াই বৃথা যায়নি’

চীন, রাশিয়া ও পাকিস্তানের কূটনীতিকদের সঙ্গে বৈঠক আফগান প্রধানমন্ত্রীর

চীন, রাশিয়া ও পাকিস্তানের কূটনীতিকদের সঙ্গে বৈঠক আফগান প্রধানমন্ত্রীর

ছয় সন্তান থাকার কথা স্বীকার করলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী

আপডেট : ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২২:৪৮

ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন প্রথমবারের মতো স্বীকার করেছেন তার ছয় সন্তান রয়েছে। একথা স্বীকার করে একটি মার্কিন সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি জানিয়েছেন, তাকে অনেক নেপি পাল্টাতে হয়। মঙ্গলবার দ্য গার্ডিয়ানের এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য উঠে এসেছে।

বরিস জনসন অতীতে নিজের জটিল ব্যক্তিজীবন প্রশ্নের জবাব দেওয়া এড়িয়ে গেছেন। এর আগে দুইবার তার বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছে। পরকীয়া সম্পর্কে এক মেয়ে সন্তানের জন্ম দিয়েছেন। কিন্তু যখন এনবিসি’র সাক্ষাৎকার গ্রহীতা তার ছয় সন্তান রয়েছে বলার পর জনসন জবাব দেন, হ্যাঁ।

স্ত্রী ক্যারি জনসনের সঙ্গে তার এক বছরের এক ছেলে উইলফ্রেড রয়েছে তার। ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ে সন্তান থাকাকে দারুণ বলে উল্লেখ করেছেন। দাবি করেছেন, তিনি অনেক নেপি বদলান। এই দম্পতি আরেক সন্তানের অপেক্ষায় রয়েছে।

দ্বিতীয় স্ত্রী ম্যারিনা হুইলারের সঙ্গে জনসনের চার প্রাপ্ত বয়স্ক সন্তান রয়েছে। এছাড়া বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক থেকে এক কন্যা সন্তান আছে।

/এএ/

সম্পর্কিত

তালেবানের সঙ্গে বৈঠক রাশিয়ার

তালেবানের সঙ্গে বৈঠক রাশিয়ার

সাবমেরিন বিতর্কের পর একযোগে কাজ করার অঙ্গীকার মোদি-ম্যাক্রোঁর

সাবমেরিন বিতর্কের পর একযোগে কাজ করার অঙ্গীকার মোদি-ম্যাক্রোঁর

'সতর্ক বার্তা', পারমাণবিক সাবমেরিন ইস্যুতে ফ্রান্সের পাশে জার্মানি

'সতর্ক বার্তা', পারমাণবিক সাবমেরিন ইস্যুতে ফ্রান্সের পাশে জার্মানি

লন্ড‌নে বাংলা‌দেশি বংশোদ্ভূত স্কুল শি‌ক্ষিকার রহস্যজনক মৃত্যু

লন্ড‌নে বাংলা‌দেশি বংশোদ্ভূত স্কুল শি‌ক্ষিকার রহস্যজনক মৃত্যু

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

'সতর্ক বার্তা', পারমাণবিক সাবমেরিন ইস্যুতে ফ্রান্সের পাশে জার্মানি

'সতর্ক বার্তা', পারমাণবিক সাবমেরিন ইস্যুতে ফ্রান্সের পাশে জার্মানি

অস্ট্রেলিয়ার পর ফ্রান্সের সঙ্গে সামরিক চুক্তি বাতিল করলো সুইজারল্যান্ড

বিমান ক্রয়ে ক্ষোভ, সুইস প্রেসিডেন্টের সঙ্গে বৈঠক বাতিল করলেন ম্যাঁক্রো

তিন বিশ্ব শক্তির চুক্তিতে পারমাণবিক অস্ত্র প্রতিযোগিতা শুরু হতে পারে: উ. কোরিয়া

আকাস চুক্তির কারণে অস্ত্র প্রতিযোগিতা শুরুর আশঙ্কা উ. কোরিয়ার

ফ্রান্সের সঙ্গে উত্তেজনার মধ্যেই যুক্তরাষ্ট্র সফরে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী

ফ্রান্সের সঙ্গে উত্তেজনার মধ্যেই যুক্তরাষ্ট্র সফরে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী

সাবমেরিন বিতর্কে যুক্তরাজ্যের সঙ্গে বৈঠক বাতিল করলো ফ্রান্স

যুক্তরাজ্যের সঙ্গে ফ্রান্সের প্রতিরক্ষা বৈঠক বাতিল

ফ্রান্সকে মিথ্যা বলার অভিযোগ অস্বীকার অস্ট্রেলিয়ার

ফ্রান্সকে মিথ্যা বলার অভিযোগ অস্বীকার অস্ট্রেলিয়ার

অস্ট্রেলিয়া-যুক্তরাষ্ট্র মিথ্যাচার করেছে:  ফ্রান্স

অস্ট্রেলিয়া-যুক্তরাষ্ট্র মিথ্যাচার করেছে:  ফ্রান্স

অস্ট্রেলিয়া বড় ধরনের ভুল করেছে: ফ্রান্স

অস্ট্রেলিয়া বড় ধরনের ভুল করেছে: ফ্রান্স

অস্ট্রেলিয়ায় লকডাউনের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ, আটক ২৬৭

অস্ট্রেলিয়ায় লকডাউনের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ, আটক ২৬৭

অস্ট্রেলিয়া-যুক্তরাষ্ট্র থেকে রাষ্ট্রদূতদের ডেকে পাঠালো ফ্রান্স

অস্ট্রেলিয়া-যুক্তরাষ্ট্র থেকে রাষ্ট্রদূতদের ডেকে পাঠালো ফ্রান্স

সর্বশেষ

তালেবানকে বয়কট করবেন না: জাতিসংঘে কাতারের আমির

তালেবানকে বয়কট করবেন না: জাতিসংঘে কাতারের আমির

লিঙ্গ সমতার জন্য নারী নেতৃবৃন্দের নেটওয়ার্ক গঠনের ওপর গুরুত্বারোপ প্রধানমন্ত্রীর

লিঙ্গ সমতার জন্য নারী নেতৃবৃন্দের নেটওয়ার্ক গঠনের ওপর গুরুত্বারোপ প্রধানমন্ত্রীর

‘তালেবানের বিরুদ্ধে দুই দশকের লড়াই বৃথা যায়নি’

‘তালেবানের বিরুদ্ধে দুই দশকের লড়াই বৃথা যায়নি’

৭১ লাখ ফাইজার টিকা দেবে যুক্তরাষ্ট্র

৭১ লাখ ফাইজার টিকা দেবে যুক্তরাষ্ট্র

পানিতে ডুবে শিশুমৃত্যু, নেপথ্যে ‘নজরদারির অভাব’

গবেষণাপানিতে ডুবে শিশুমৃত্যু, নেপথ্যে ‘নজরদারির অভাব’

© 2021 Bangla Tribune