X
শনিবার, ০৮ মে ২০২১, ২৫ বৈশাখ ১৪২৮

সেকশনস

সীমান্তের বাড়ি বাড়ি মাদক খোঁজেন পর্যটকরা!

আপডেট : ১১ এপ্রিল ২০২১, ১৬:৪৪

দেশের সীমান্তবর্তী জেলাগুলোতে সারা বছরই পর্যটকের আনাগোনা থাকে। এতে স্থানীয়দের অর্থনৈতিক অবস্থার উন্নতি হলেও বাড়ছে উটকো ঝামেলা। পর্যটক নিয়ে বিড়ম্বনার শেষ নেই স্থানীয়দের। অনেক পর্যটক এসব এলাকার বাড়ি বাড়ি গিয়ে খোঁজেন ভারতীয় পণ্য, কেউ খোঁজেন মাদক। তাদের প্রশ্ন শুনে শুনেও ক্লান্ত সীমান্তের মানুষরা। এলাকাবাসীর অভিযোগ, পর্যটকরা মনে করেন, সীমান্তে বাড়ি থাকা মানেই তিনি মাদক কিংবা চোরাচালানে যুক্ত।

বেনাপোল ও পুটখালী ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী এলাকায় বসবাসকারী প্রায় সব বাড়ির মানুষের অভিজ্ঞতা একই। ২৬ মার্চ শুক্রবার সকালে সীমান্তবর্তী গাতিপাড়া গ্রামে গিয়ে দেখা যায়, বিভিন্ন পর্যটক বাংলাদেশ ঘেঁষা ভারতীয় গ্রাম তেরঘর দেখতে এসেছেন। বাঁশের বেড়ায় ঘেরা তেরঘর দেখা শেষে গাতিপাড়ার বিভিন্ন বাড়ির আঙিনায় ঢুঁ মারেন তারা।

ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত

সীমান্তবর্তী মানুষের জীবনযাপনের কথা জানার পর প্রায় সবারই এক প্রশ্ন, ভারতীয় কোনও পণ্য আছে কিনা? এরমধ্যে অতি উৎসাহী কেউ আবার মাদকও খোঁজেন।

শাকিল, সবুজ, রিপনসহ কয়েকজন তরুণ খুলনা থেকে বেনাপোল এসেছিল ঘুরতে। তেরঘর দেখার পর তারা ঢোকে গাতিপাড়ার এক বাড়িতে। তাদের উটকো সব অনুরোধে বিরক্ত হয়ে সত্তরোর্ধ্ব বৃদ্ধা কোহিনুর বেগম বাড়ি থেকে বের হয়ে যেতে বলেন।

ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত

কোহিনুর বেগমের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, তার আদি বাড়ি পশ্চিমবঙ্গের নদীয়া জেলার রানাঘাট এলাকায়। বাবা-মা মারা যাওয়ার পর ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের সময় নদীয়ায় ফুপুর বাড়িতে ওঠেন। ওই ফুপুই তাকে গাতিপাড়ায় বিয়ে দেন। বিয়ের পর থেকে কোহিনুর বেগমের আর রানাঘাট যাওয়া হয়নি। বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘সীমান্তে বসবাসের অনেক জ্বালা আছে। যে কথা বলবো তাতেই দোষ।’

২০০৮ সালে তেরঘর ও গাতিপাড়ার মাঝে বাঁশের বেড়া দিয়ে সীমানা নির্ধারণ করে দেওয়া হয়েছে। তবে এই দুই গ্রামের মানুষ সবাই সবাইকে চেনেন, জানেন। তেরঘরের কারও বিপদ হলে বাংলাদেশিরাই এগিয়ে আসেন। ওখানে কেউ অসুস্থ হলে ইছামতি পাড়ি দিয়ে ভারতের হাসপাতালে যাওয়ার চেয়ে বেনাপোলের হাসপাতালেই দ্রুত আসা যায়।

ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত

গাতিপাড়ার অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মকর্তা কামাল উদ্দিন। ২৬ মার্চ জুমার নামাজ শেষে বাড়ি ফেরার সময় বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘সীমান্তে পরিবর্তন এসেছে অনেক। আগে উভয় দেশের বেশিরভাগ সীমান্তই অরক্ষিত ছিল। এখন সব সময় টহল থাকে। বিজিবি অত্যাধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহার করছে। তাই চোরাচালানও কমেছে। আগে ইছামতি দিয়ে গরু আসতো। এখন আসে না।’

ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত

পুটখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. হাদিউজ্জামান বলেন, ‘সীমান্তে পর্যটকরা এসেই ভারতীয় পণ্য খোঁজেন। কেউ কেউ এমন সব প্রশ্ন করেন, যাতে মানুষ বিরক্ত হয়।’ বেড়াতে আসা সবাইকে পর্যটকসুলভ আচরণ করার অনুরোধ করেন তিনি।

তেরঘরে এখন সাতটি ঘর

একসময় তেরটি ঘর ছিল বলে এর নাম তেরঘর। এখন ঘর আছে সাতটি। বাসিন্দাদের সবাই দরিদ্র। নৌকা বা ভেলায় চড়ে ভারতের মূল ভূখণ্ডে পা রাখতে হয় তাদের। ইছামতিতে মাছ ধরেই জীবন চলে। গ্রামে কোনও স্কুলও নেই। এখানকার যে ক’জন শিক্ষার্থী আছে, তাদের পড়তে যেতে হয় ভারতের বনগাঁ ও কল্যাণীর বিভিন্ন স্কুল-কলেজে।

ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত

বেনাপোল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বজলুর রহমান বলেন, ‘তেরঘরের মানুষ ভারতীয় হলেও তাদের ভাষা, সংস্কৃতি, আচার-আচরণ সব বাংলাদেশিদের মতো। তাদের বিপদে মানবিক কারণে বাংলাদেশিরাই এগিয়ে যায়।’

 

 

/এআরআর/এফএ/

সম্পর্কিত

হাতিয়ায় ইউপি সদস্য প্রার্থীকে হত্যার ঘটনায় আটক ৭

হাতিয়ায় ইউপি সদস্য প্রার্থীকে হত্যার ঘটনায় আটক ৭

হেফাজতের তাণ্ডবে জড়িত সবাইকে আইনের আওতায় আনা হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

হেফাজতের তাণ্ডবে জড়িত সবাইকে আইনের আওতায় আনা হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

দুই বছরের দণ্ড এড়াতে ১৪ বছর পলাতক!

দুই বছরের দণ্ড এড়াতে ১৪ বছর পলাতক!

আরও ১৯১৭ হাজতির জামিন

আরও ১৯১৭ হাজতির জামিন

‘গালকাটা’ রাজন ও চায়না বাবুল রিমান্ডে

‘গালকাটা’ রাজন ও চায়না বাবুল রিমান্ডে

তিন জেলায় নাশকতায় সংশ্লিষ্টতার অভিযোগ শাহীনুর পাশা’র বিরুদ্ধে

তিন জেলায় নাশকতায় সংশ্লিষ্টতার অভিযোগ শাহীনুর পাশা’র বিরুদ্ধে

হিন্দুদের নির্যাতন ও শ্মশান দখলকারীদের মানবতাবিরোধী অপরাধ ট্রাইব্যুনালে বিচারের দাবি

হিন্দুদের নির্যাতন ও শ্মশান দখলকারীদের মানবতাবিরোধী অপরাধ ট্রাইব্যুনালে বিচারের দাবি

হেফাজতের হরতালের দিন বিএনপি নেতার কথায় ভাঙচুর করা হয় রূপগঞ্জে!

হেফাজতের হরতালের দিন বিএনপি নেতার কথায় ভাঙচুর করা হয় রূপগঞ্জে!

মাছের প্রজেক্ট থেকে যুবকের মরদেহ উদ্ধার

মাছের প্রজেক্ট থেকে যুবকের মরদেহ উদ্ধার

হেফাজত নেতা জাকারিয়া নোমান ফয়েজীর বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা

হেফাজত নেতা জাকারিয়া নোমান ফয়েজীর বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা

হেফাজতের বিলুপ্ত কমিটির আইন বিষয়ক সম্পাদক গ্রেফতার

হেফাজতের বিলুপ্ত কমিটির আইন বিষয়ক সম্পাদক গ্রেফতার

গ্রেফতারের ১০ দিনের মাথায় জামিনে মুক্ত করোনা কিট জালিয়াতি চক্রের সদস্যরা

গ্রেফতারের ১০ দিনের মাথায় জামিনে মুক্ত করোনা কিট জালিয়াতি চক্রের সদস্যরা

সর্বশেষ

নারায়ণগ‌ঞ্জের মে‌রিনা লন্ড‌নের অ্যাসেম্বলি মেম্বার নির্বাচিত

নারায়ণগ‌ঞ্জের মে‌রিনা লন্ড‌নের অ্যাসেম্বলি মেম্বার নির্বাচিত

সকাল থেকে যাত্রীবাহী ফেরি বন্ধ

সকাল থেকে যাত্রীবাহী ফেরি বন্ধ

সুহিতা সুলতানা

সুহিতা সুলতানা

আপনার শুভেচ্ছা বার্তায় আমি আপ্লুত: প্রধানমন্ত্রীকে মমতা

আপনার শুভেচ্ছা বার্তায় আমি আপ্লুত: প্রধানমন্ত্রীকে মমতা

আজ বিশ্ব পরিযায়ী পাখি দিবস

আজ বিশ্ব পরিযায়ী পাখি দিবস

হাতিয়ায় ইউপি সদস্য প্রার্থীকে হত্যার ঘটনায় আটক ৭

হাতিয়ায় ইউপি সদস্য প্রার্থীকে হত্যার ঘটনায় আটক ৭

খাকদোনের দূষণে স্বাস্থ্যঝুঁকিতে স্থানীয়রা

খাকদোনের দূষণে স্বাস্থ্যঝুঁকিতে স্থানীয়রা

থ্যালাসেমিয়া রোগনিয়ন্ত্রণে প্রতিরোধের কোনও বিকল্প নেই: প্রধানমন্ত্রী

থ্যালাসেমিয়া রোগনিয়ন্ত্রণে প্রতিরোধের কোনও বিকল্প নেই: প্রধানমন্ত্রী

মালদ্বীপ যাওয়ার আগে উজ্জীবিত বসুন্ধরা

মালদ্বীপ যাওয়ার আগে উজ্জীবিত বসুন্ধরা

বাড়ি দখলে মালিকের বিরুদ্ধে শকুনের 'যুদ্ধ ঘোষণা'

বাড়ি দখলে মালিকের বিরুদ্ধে শকুনের 'যুদ্ধ ঘোষণা'

যানজট ঠেলে শপিং মলে ক্রেতাদের ভিড়,  উপেক্ষিত বিধিনিষেধ

যানজট ঠেলে শপিং মলে ক্রেতাদের ভিড়, উপেক্ষিত বিধিনিষেধ

কেন এত বজ্রপাত? সাবধানে থাকতে যা করতে হবে

কেন এত বজ্রপাত? সাবধানে থাকতে যা করতে হবে

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

আরও ১৯১৭ হাজতির জামিন

আরও ১৯১৭ হাজতির জামিন

‘গালকাটা’ রাজন ও চায়না বাবুল রিমান্ডে

‘গালকাটা’ রাজন ও চায়না বাবুল রিমান্ডে

তিন জেলায় নাশকতায় সংশ্লিষ্টতার অভিযোগ শাহীনুর পাশা’র বিরুদ্ধে

তিন জেলায় নাশকতায় সংশ্লিষ্টতার অভিযোগ শাহীনুর পাশা’র বিরুদ্ধে

হিন্দুদের নির্যাতন ও শ্মশান দখলকারীদের মানবতাবিরোধী অপরাধ ট্রাইব্যুনালে বিচারের দাবি

হিন্দুদের নির্যাতন ও শ্মশান দখলকারীদের মানবতাবিরোধী অপরাধ ট্রাইব্যুনালে বিচারের দাবি

গ্রেফতারের ১০ দিনের মাথায় জামিনে মুক্ত করোনা কিট জালিয়াতি চক্রের সদস্যরা

গ্রেফতারের ১০ দিনের মাথায় জামিনে মুক্ত করোনা কিট জালিয়াতি চক্রের সদস্যরা

কুখ্যাত সন্ত্রাসী গালকাটা রাজন ও চায়না বাবুল গ্রেফতার

কুখ্যাত সন্ত্রাসী গালকাটা রাজন ও চায়না বাবুল গ্রেফতার

আইআইইউসি’র তিন শিক্ষকের জামিন আপিলে বহাল

আইআইইউসি’র তিন শিক্ষকের জামিন আপিলে বহাল

পেশাদারিত্বের সঙ্গে দায়িত্ব পালনের নির্দেশ আইজিপি'র

পেশাদারিত্বের সঙ্গে দায়িত্ব পালনের নির্দেশ আইজিপি'র

রফিকুল ইসলাম মাদানীকে আরও জিজ্ঞাসাবাদ করবে ডিবি

রফিকুল ইসলাম মাদানীকে আরও জিজ্ঞাসাবাদ করবে ডিবি

সংসদ ভবনে হামলার পরিকল্পনার অভিযোগে গ্রেফতার ২ জন রিমান্ডে

সংসদ ভবনে হামলার পরিকল্পনার অভিযোগে গ্রেফতার ২ জন রিমান্ডে

© 2021 Bangla Tribune