X
বৃহস্পতিবার, ০৬ মে ২০২১, ২৩ বৈশাখ ১৪২৮

সেকশনস

আধা লকডাউন কতটা কার্যকর?

আপডেট : ১৪ এপ্রিল ২০২১, ১২:১৫

বুধবার (১৪ এপ্রিল) থেকে সাত দিনের সার্বিক কার্যাবলি ও চলাচলে বিধিনিষেধ আরোপ করে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। সোমবার (১২ এপ্রিল) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ ১৩ দফা নির্দেশনাসহ এ প্রজ্ঞাপন জারি করে। কিন্তু অঘোষিত এই লকডাউনে হাজারো মানুষ ঢাকা ছেড়েছে। ঘণ্টা মেপে খোলা রয়েছে হোটেল, রেস্তোরাঁ, কাঁচাবাজার, শেয়ারবাজার, ব্যাংক। এসব প্রতিষ্ঠানে সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করা কঠিন হবে বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। এই লকডাউন কতটা কার্যকর হবে তা নিয়ে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে।  

জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা বলছেন, সংক্রমণরোধে এই আধা লকডাউন কোনও কাজে আসবে না। ভাইরাস কোনও সময় বা ঘণ্টা মেপে কাজ করে না; বরং যে হারে মানুষ ঢাকা ছেড়েছে তাতে করে এতদিনের উচ্চ ঝুঁকির ‘ঢাকা’র ঝুঁকি ছড়িয়ে গেলো দেশজুড়ে।

এদিকে, কোভিড-১৯ বিষয়ক জাতীয় কারিগরি পরার্মশক কমিটি সংক্রমণ কমানোর জন্য পরিপূর্ণভাবে অন্তত দুই সপ্তাহের লকডাউনের সুপারিশ করেছিল।

নির্দেশনা ও বিধিনিষেধ আরও শক্তভাবে অনুসরণ করা দরকার মনে করে অন্তত দুই সপ্তাহের জন্য পূর্ণ লকডাউন ছাড়া এটা নিয়ন্ত্রণ করা যাবে না বলে সভায় মতামত জানান কমিটির সদস্যরা। বিশেষ করে সিটি করপোরেশন ও মিউনিসিপ্যালিটি এলাকায় পূর্ণ লকডাউন দেওয়ার সুপারিশ করা হয়।

কমিটি আরও মতামত দেয়, দুই সপ্তাহ শেষ হওয়ার আগে সংক্রমণের হার বিবেচনা করে আবার সিদ্ধান্ত নেওয়া যেতে পারে।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেকও উচ্চ ঝুঁকিপূর্ণ এলাকাতে লকডাউন দেওয়ার পক্ষে মত দিয়েছেন। যেকোনও দেশে সংক্রমণ কমিয়ে আনতে সর্বনিম্ন তিন সপ্তাহের লকডাউন দরকার জানিয়ে তিনি বলেন, ‘যদি ভালো একটা লকডাউন দেয়, তাহলে সংক্রমণের হার আরও কমে যেত।’

আধা লকডাউনে আধা ফল পাওয়া যাবে বলে মন্তব্য করেছেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের সাবেক পরিচালক অধ্যাপক ডা. বে-নজির আহমেদ। বাংলা ট্রিবিউনকে তিনি বলেন, ‘আধা লকডাউনে ফল পাওয়া যাবে অর্ধেক, পুরোটা নয়।’

এই আধা লকডাউনে আমাদের কিছু ক্ষতি হবে মন্তব্য করে অধ্যাপক বে-নজির আহমেদ বলেন, ‘বাকি ৫০ ভাগ অর্জন আমাদের হবে না।’ তিনি বলেন, ‘গার্মেন্ট কারখানাতে লাখ লাখ শ্রমিক। তাদের মধ্যে সংক্রমণ হবে, এটা ঠেকানো যাবে না।’

‘কঠোর স্বাস্থ্যবিধি দিয়ে স্বাস্থ্যের সদ্য বিদায়ী সচিবসহ স্বাস্থ্য বিভাগের অনেকেই আক্রান্ত হয়েছেন, আর সেখানে পোশাক কারখানায় কীভাবে চিন্তা করা যায় যে, গার্মেন্টেসে স্বাস্থ্যবিধি মেনে করোনার সংক্রমণ রোধ করা যাবে? এটা বিশ্বাস করা যায়?’—যোগ করেন বে-নজির আহমেদ।

তিনি বলেন, ‘তবে কিছু কিছু জেলায় হয়তো সংক্রমণ কমবে, কিন্তু কিছু কিছু জেলায় সংক্রমণ চলতেই থাকবে। আর এটা যদি চলতেই থাকে, তাহলে হয়তো এক সপ্তাহ থেকে দুই সপ্তাহ পরে আবারও আগের ধারাতে সংক্রমণ চলে আসবে।’

সংক্রমণের এই ঊর্ধ্বগতিতে মানুষকে ঘরে বেঁধে ফেলার মতো ব্যবস্থা রাখতে হবে। কাঁচাবাজার, হোটেল খোলা রাখলে মানুষ ঘরে থাকবে না মন্তব্য করে স্বাস্থ্য অধিদফতরের গঠিত পাবলিক হেলথ অ্যাডভাইজারি কমিটির সদস্য জনস্বাস্থ্যবিদ অধ্যাপক আবু জামিল ফয়সাল বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘বিধি-নিষেধ দিয়ে সংক্রমণের প্রবাহ রোধ করা যাবে না।’

‘এই আধা লকডাউন দিয়ে কিছু হবে না। এই বিধি-নিষেধ করোনাভাইরাসের প্রবাহকে ব্যাহত করবে না। করোনার প্রবাহকে থামাতে হলে লকডাউনের সঙ্গে রোগী শনাক্ত করে তাদের আইসোলেশন, রোগীর সংস্পর্শে আসাদের কোয়ারেন্টিন করতে হবে। এবং খুবই সিনসিয়ারলি করতে হবে। নয় তো কিছু হবে না।’—বলেন অধ্যাপক আবু জামিল ফয়সাল।

কোভিড-১৯ বিষয়ক জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটির সদস্য অধ্যাপক ডা. নজরুল ইসলাম বলেন, ‘মানুষকে ঘরে রাখা যাবে না এগুলো দিয়ে।’

তিনি বলেন, ‘লকডাউন মানে হচ্ছে কোনও এলাকাকে একেবারেই লক করে ফেলা। যেখানে বাইরের কেউ আসবে না, যেখান থেকে কেউ বাইরে যেতে পারবে না। যাতে করে সে এলাকায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হওয়ার পর তার থেকে অন্য কেউ সংক্রমিত হতে না পারে। মানে হচ্ছে, মানুষের চলাচল সীমিত করে দিতে হবে।’

অধ্যাপক নজরুল ইসলাম বলেন, ‘কাঁচাবাজার, হোটেল খোলা রেখে মানুষের চলাচল সীমিত করা যাবে না, তাতে করে ভাইরাসকে আটকে রাখা যাবে না। এই সংক্রমণের বিস্তার এই বিধি-নিষেধ দিয়ে রোধ করা যাবে না।’

 

/আইএ/

সম্পর্কিত

সকাল থেকে শহরের ভেতরে গণপরিবহন চলবে

সকাল থেকে শহরের ভেতরে গণপরিবহন চলবে

প্রধানমন্ত্রী মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন: আইনমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন: আইনমন্ত্রী

দেশে বেড়েছে মোবাইল সংযোগ ও ইন্টারনেট ব্যবহারকারী

দেশে বেড়েছে মোবাইল সংযোগ ও ইন্টারনেট ব্যবহারকারী

অডিও ফাঁসকারীদের আইনের আওতায় আনতে আইনি নোটিশ

অডিও ফাঁসকারীদের আইনের আওতায় আনতে আইনি নোটিশ

রেলপথে ভারত থেকে আসছে ৫০ হাজার টন চাল

রেলপথে ভারত থেকে আসছে ৫০ হাজার টন চাল

জাম্বিয়ায় সামরিক কূটনীতি নিয়ে বক্তব্য রাখলেন জেনারেল আজিজ

জাম্বিয়ায় সামরিক কূটনীতি নিয়ে বক্তব্য রাখলেন জেনারেল আজিজ

সাংবাদিক নির্যাতনকারী ফৌজদারি মামলার আসামি ফের স্বপদে বহাল!

সাংবাদিক নির্যাতনকারী ফৌজদারি মামলার আসামি ফের স্বপদে বহাল!

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের গাছ কাটার প্রতিবাদে মানববন্ধন

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের গাছ কাটার প্রতিবাদে মানববন্ধন

এফবিসিসিআই’র সভাপতি হচ্ছেন জসিম, পরিচালকরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত

এফবিসিসিআই’র সভাপতি হচ্ছেন জসিম, পরিচালকরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত

গণমাধ্যমের জন্য ‘নৈতিক নীতিমালা’ প্রণয়ন চেয়ে আইনি নোটিশ

গণমাধ্যমের জন্য ‘নৈতিক নীতিমালা’ প্রণয়ন চেয়ে আইনি নোটিশ

সরকারি খরচে হজে পাঠানোর নামে প্রতারণা, গ্রেফতার ১

সরকারি খরচে হজে পাঠানোর নামে প্রতারণা, গ্রেফতার ১

শেয়ার বাজারে লেনদেনের সময় বাড়লো

শেয়ার বাজারে লেনদেনের সময় বাড়লো

সর্বশেষ

২০ দিন পর রাজপথে নেমেছে গণপরিবহন

২০ দিন পর রাজপথে নেমেছে গণপরিবহন

ইন্দোনেশিয়ার বিমানবন্দরে করোনা টেস্ট নিয়ে জালিয়াতি

ইন্দোনেশিয়ার বিমানবন্দরে করোনা টেস্ট নিয়ে জালিয়াতি

করোনা শনাক্তের সংখ্যা ১৫ কোটি ৫৮ লাখ ছাড়িয়েছে

করোনা শনাক্তের সংখ্যা ১৫ কোটি ৫৮ লাখ ছাড়িয়েছে

ট্রাকের নিচে পড়ে মোটরসাইকেল আরোহীর মৃত্যু

ট্রাকের নিচে পড়ে মোটরসাইকেল আরোহীর মৃত্যু

রাজধানীতে ভিক্ষুক বেড়েছে কয়েক গুণ

রাজধানীতে ভিক্ষুক বেড়েছে কয়েক গুণ

কোন কোন আত্মীয়কে জাকাত দেওয়া যায় না?

কোন কোন আত্মীয়কে জাকাত দেওয়া যায় না?

ট্রাকচাপায় শাবি ছাত্র নিহত

ট্রাকচাপায় শাবি ছাত্র নিহত

স্বস্তির বৃষ্টিতে ফল-ফসলের উপকার

স্বস্তির বৃষ্টিতে ফল-ফসলের উপকার

করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে অর্থনীতিবিদ মাহবুবউল্লাহ

করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে অর্থনীতিবিদ মাহবুবউল্লাহ

অকস্মাৎ হানায় হাজারো বাঙালি গ্রেফতার

অকস্মাৎ হানায় হাজারো বাঙালি গ্রেফতার

বাংলাদেশ থেকে কৃষি শ্রমিক নিতে চায় গ্রিস

বাংলাদেশ থেকে কৃষি শ্রমিক নিতে চায় গ্রিস

রিয়াল মাদ্রিদকে বিদায় করে ফাইনালে চেলসি

রিয়াল মাদ্রিদকে বিদায় করে ফাইনালে চেলসি

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

প্রধানমন্ত্রী মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন: আইনমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন: আইনমন্ত্রী

রাজনৈতিক ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে ভ্যানগার্ড হিসেবে কাজ করবে আ.লীগ: তথ্যমন্ত্রী

রাজনৈতিক ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে ভ্যানগার্ড হিসেবে কাজ করবে আ.লীগ: তথ্যমন্ত্রী

মমতাকে বাংলাদেশের অভিনন্দন বার্তা

মমতাকে বাংলাদেশের অভিনন্দন বার্তা

দ্বিতীয় ডোজের অনিশ্চয়তায় ১৪ লাখেরও বেশি মানুষ

রেজিস্ট্রেশন সাময়িক বন্ধ দ্বিতীয় ডোজের অনিশ্চয়তায় ১৪ লাখেরও বেশি মানুষ

বিনামূল্যে জমি বণ্টন শুরু

বিনামূল্যে জমি বণ্টন শুরু

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে হেফাজতের ৪ দাবি

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে হেফাজতের ৪ দাবি

মমতাকে অভিনন্দন বার্তা পাঠাবেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

মমতাকে অভিনন্দন বার্তা পাঠাবেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

ভারতের সঙ্গে সীমান্ত বন্ধের মেয়াদ বাড়তে পারে

ভারতের সঙ্গে সীমান্ত বন্ধের মেয়াদ বাড়তে পারে

ডা. এফতেখাইরুলের চিকিৎসায় প্রধানমন্ত্রীর সহায়তা

ডা. এফতেখাইরুলের চিকিৎসায় প্রধানমন্ত্রীর সহায়তা

ভারত থেকে ভ্যাকসিন আনার চুক্তি কার্যত ভেঙে গেছে: পরিকল্পনামন্ত্রী

ভারত থেকে ভ্যাকসিন আনার চুক্তি কার্যত ভেঙে গেছে: পরিকল্পনামন্ত্রী

© 2021 Bangla Tribune