X
রবিবার, ২৫ জুলাই ২০২১, ৯ শ্রাবণ ১৪২৮

সেকশনস

জরিপ হয়নি পাঁচ বছর

দেশে শিশুশ্রমিক কত কেউ জানে না

আপডেট : ১২ জুন ২০২১, ০৯:০০

২০২১ সালের ৩১ ডিসেম্বরের মধ্যে ঝুঁকিপূর্ণ ও ২০২৫ সালের মধ্যে সব ধরনের শিশুশ্রম বন্ধে সরকারের আইন থাকলেও দেশের কোন খাতে কত শিশুশ্রমিক কাজ করছে তার সঠিক পরিসংখ্যান নেই। এতে ২০২৫ সালের মধ্যে শিশুশ্রম নিরসনে অনিশ্চয়তা দেখা দিয়েছে।

১৪ বছরের কমবয়সী কোনও শিশুকে কোনও কাজে নিয়োগ করার ক্ষেত্রে বিদ্যমান সরকারি আইনে নিষেধ করা হলেও চলছে এ নিয়োগ। এখনও দেশের বহু বাসাবাড়িতে ১৪ বছরের কমবয়সী শিশুরা কাজ করছে। কাজ করছে হোটেল রেস্তোরাঁসহ বিভিন্ন কারখানা ও প্রতিষ্ঠানে।

জরিপ হয়নি পাঁচ বছরেও

বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো (বিবিএস) সূত্রে জানা গেছে, ২০১৬ সালের ১ মার্চ পর্যন্ত বাংলাদেশে সাড়ে ৩৪ লাখ শিশু কর্মরত ছিল। এর মধ্যে প্রায় ১৭ লাখ শিশুর কাজ শিশুশ্রমের আওতায় পড়ে। বাকিদের কাজ অনুমোদনযোগ্য।

এর মধ্যে ঝুঁকিপূর্ণ কাজে নিয়োজিত ছিল ১২ লাখ ৮০ হাজার। অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ কাজ করছিল ২ লাখ ৬০ হাজার শিশু। তাদের কাজের বৈশিষ্ট্য স্বাস্থ্যের জন্য যথেষ্ট হুমকিস্বরূপ।

২০১৩ সালে বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) জাতীয় শিশুশ্রম সমীক্ষায় এমন তথ্য পাওয়া গেলেও ২০১৬ সালের জানুয়ারিতে সমীক্ষাটি চূড়ান্ত করে বিবিএস। এরপর শিশুশ্রম নিয়ে আর কোনও জরিপ কেউ করেছে কিনা তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

শিশুশ্রম বন্ধের কোন মন্ত্রণালয়ের কী কাজ

এদিকে সরকারের শ্রম মন্ত্রণালয় থেকে শিশুশ্রম নিরসনে ৯ ক্ষেত্র চিহ্নিত করে দায়িত্ব বণ্টন করে নয়টি কৌশলগত ক্ষেত্র চিহ্নিত করে ১০টি মন্ত্রণালয় ও বিভাগকে দায়িত্ব দিয়েছে সরকার। ২০১০ সালের জাতীয় শিশুশ্রম নিরসন নীতির আলোকে জাতীয় কর্মপরিকল্পনার আওতায় ওই ৯টি কৌশলগত ক্ষেত্র চিহ্নিত করে দায়িত্ব বণ্টনও করা হয়েছে। সেই অনুসারে শিশুশ্রম নিরসনের লক্ষ্যে নীতি বাস্তবায়ন এবং প্রাতিষ্ঠানিক উন্নয়নের বিষয়টি দেখবে আইন, বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রণালয় এবং ন্যাশনাল কমিশন টু রিভিউ দ্য ওয়ার্কিং অফ দ্য কনস্টিটিউশন।

শ্রমে নিয়োজিত শিশুদের শিক্ষা নিশ্চিত করার বিষয়টি দেখবে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রণালয় দেখবে স্বাস্থ্য ও পুষ্টির উন্নয়নের কাজ। সামাজিক সচেতনতা তৈরিতে কাজ করবে তথ্য মন্ত্রণালয়, ধর্ম মন্ত্রণালয় ও সিটি করপোরেশন।

কর্মসংস্থান ও শ্রমবাজারে শিশুশ্রম বন্ধের বিষয়টি দেখবে শ্রম মন্ত্রণালয়। আইন প্রয়োগ ও বাস্তবায়ন করবে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ, শ্রম মন্ত্রণালয় ও আইন মন্ত্রণালয়। শিশুশ্রম প্রতিরোধে শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়, শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও স্থানীয় সরকার বিভাগও কাজ করবে।

শ্রমে নিযুক্ত শিশুদের সুরক্ষার দায়িত্ব থাকবে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়, সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয় ও সিটি করপোরেশনগুলোর ওপর। এ ছাড়া শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো এবং সরকারি প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউটগুলো গবেষণা ও প্রশিক্ষণের ক্ষেত্রে কাজ করবে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, দেশে শিশুশ্রম বন্ধে বিদ্যমান আইনের পর্যালোচনা ও সংশোধন প্রয়োজন। তারা জাতীয় সামাজিক নিরাপত্তা কর্মকৌশলে শিশুশ্রমকে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে গুরুত্ব দেওয়ার সুপারিশ করেছেন।

তারা বলেছেন, সামাজিক নিরাপত্তা বলয়ের আওতায় শিশুদের অন্তর্ভুক্ত করতে না পারলে শিশুশ্রমিক কমবে না।

উল্লেখ্য, গৃহকর্মী সুরক্ষা ও কল্যাণনীতি ২০১৫ অনুসারে ১৪ বছরের নিচে কোনও শিশুকে গৃহকর্মে নিয়োগ করা যাবে না।

পেশা বদলাচ্ছে শিশুরা

মহামারি করোনার কারণে শিশুশ্রমিকদের অনেকেই পেশা পরিবর্তন করেছে। ধারণা করা হচ্ছে এদের সংখ্যা মোট শিশুশ্রমিকের ৫০ শতাংশ। রাজধানীর কমলাপুর, মুগদা, ভাসানটেক ও মোহাম্মদপুর এলাকায় দৈবচয়নের ভিত্তিতে ২৪০ শ্রমজীবী শিশুর ওপর করা জরিপে দেখা গেছে, করোনার কারণে রোজগার কমে যাওয়ায় তারা পেশা বদলেছে। অনেকেই জড়িয়েছে ভিক্ষাবৃত্তিতে।

বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা অ্যাকশন ফর সোশ্যাল ডেভেলপমেন্ট-এএসডি’র উদ্যোগে পরিচালিত ‘কোভিড-১৯ এর প্রভাবে ঢাকায় কর্মরত শ্রমজীবী শিশুদের অবস্থা যাচাই’ শীর্ষক এক জরিপে এ তথ্য পাওয়া গেছে। গতবছরের ৩০ জুন থেকে ৭ জুলাই পর্যন্ত জরিপটি পরিচালনা করে এএসডি।

জরিপের ফলাফলে জানা গেছে, করোনার বিরূপ পরিস্থিতিতে ঢাকায় শ্রমজীবী শিশুদের ৮৬ দশমিক ৬ শতাংশ আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। যেসব শিশু আগে কাজ করতো তাদের ৩৬ দশমিক ৬ শতাংশ বলছে, বর্তমানে তাদের কাজ নেই। তাদের ওপর তাদের পরিবারগুলো নির্ভরশীল বলেও জরিপে অংশ নেওয়া ৩১ শতাংশ শিশু জানিয়েছে।

এদিকে করোনাকালীন কাজ করলেও শিশুদের ৫১ ভাগ কাজে যাবার সময় মাস্ক ব্যবহার করেনি। জরিপকৃত শিশুর ৩২ শতাংশ করোনাকালীন সরকারি বা বেসরকারি সাহায্য সহযোগিতা পায়নি বলেও জানিয়েছে।

শিশুশ্রমের যত সংজ্ঞা ও শিশুর অধিকার

কর্মরত শিশু, শিশুশ্রম, ঝুঁকিপূর্ণ শিশুশ্রমের আলাদা আলাদা সংজ্ঞা রয়েছে। ১৮তম শ্রম পরিসংখ্যানবিদদের আন্তর্জাতিক সম্মেলন, বাংলাদেশ শ্রম আইন, ২০০৬ এবং ২০১৩-এর সংশোধন অনুসারে কর্মরত শিশু বলতে বোঝায়, ১২ থেকে ১৭ বছর বয়সী শিশুদের মধ্যে যারা সপ্তাহে ৪২ ঘণ্টা পর্যন্ত হালকা পরিশ্রম বা ঝুঁকিহীন কাজ করে। এ শ্রম অনুমোদনযোগ্য।

তবে ৫ থেকে ১১ বছর বয়সী কোনও শিশু যদি কোনও ধরনের ঝুঁকিহীন কাজও করে, সেটাও শিশুশ্রম হবে। তারাও কর্মরত শিশুর সংজ্ঞায় পড়ে। ৫ থেকে ১৭ বছর বয়সী কেউ যদি সপ্তাহে ৪২ ঘণ্টার বেশি কাজ করে, সেটা ঝুঁকিপূর্ণ শিশুশ্রম হিসেবে বিবেচিত হবে।

শিশুশ্রম বিষয়ে সাংবিধানিক ও আইনগত অবস্থানে জানা গেছে, (ক) গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের সংবিধানে শিশুসহ সকল নাগরিকের মৌলিক অধিকারকে স্বীকৃতি দেওয়া হয়েছে। সংবিধানের অনুচ্ছেদ ১১, ১৪, ১৫, ১৬, ১৭, ১৮, ১৯ এবং ২০ অর্থাৎ রাষ্ট্র পরিচালনার মূলনীতি অংশে শিশুদের জন্য বাধ্যতামূলক প্রাথমিক শিক্ষাসহ শারীরিক ও মানসিক প্রতিবন্ধীদের জন্য বিশেষ ব্যবস্থা গ্রহণের উদ্যোগের ওপর জোর দেওয়া হয়েছে।

মৌলিক অধিকার অংশের অনুচ্ছেদ ২৭, ২৮, ২৯, ৩১, ৩৪, ৩৭, ৩৮, ৩৯, ৪০ এবং ৪১-এ মানুষ হিসেবে সকল নাগরিকের মৌলিক অধিকারের নিশ্চয়তা প্রদান করেছে। বিশেষত, জবরদস্তিমূলক শ্রম পুরোপুরি নিষিদ্ধ করা হয়েছে এবং অধিকার ক্ষুন্ন  হওয়ার ক্ষেত্রে আইনগতভাবে প্রতিকার পাওয়ার নিশ্চয়তা রয়েছে।

(খ) বাংলাদেশের স্বাধীনতা লাভের পর এ দেশে শিশু এবং শিশু অধিকার সংরক্ষণে প্রবর্তিত হয় শিশু আইন ১৯৭৪ (১৯৭৪ সালের ৩৯ নং আইন)। এ আইনে শিশুর সংজ্ঞা, বয়স, অধিকারের পরিধি, নাবালকত্ব, অভিভাবকত্ব, শিশুর সম্পদের হেফাজত, দেওয়ানি-ফৌজদারি মামালার ক্ষেত্রে শিশুর রক্ষাকবচ ইত্যাদি বিষয়ে বিস্তিৃত পরিমণ্ডলে আলোচিত হয়েছে। শিশু অধিকার প্রতিষ্ঠার ক্ষেত্রে এ আইন একটি উল্লেখযোগ্য মাইলফলক বলেও জাতীয় শিশুশ্রম নিরসন নীতিতে বলা হয়েছে।

আর্থ-সামাজিক দুরাবস্থাও কারণ

জাতীয় শিশুশ্রম নিরসন নীতি ২০১০ এ বলা হয়েছে- বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক দুরাবস্থাও শিশুশ্রমের অন্যতম কারণ। গ্রামে কাজের সুযোগ কম, সামাজিক অনিশ্চয়তা, মৌলিক চাহিদা পূরণের অভাব এসব কারণে গ্রাম থেকে মানুষ শহরমুখী হচ্ছে।

নদী ভাঙন, বন্যা, খরা, জলোচ্ছ্বাস ও ভূমিকম্পের মতো প্রাকৃতিক বিপর্যয়ও দায়ী। এ জাতীয় প্রতিটি ঘটনা-দুর্ঘটনাই শিশুদের কায়িক শ্রমের ঠেলে দিচ্ছে। পিতামাতার স্বল্পশিক্ষা, দারিদ্র্য এবং অসচেতনতার কারণে শিশুরা পড়াশোনাকে একটি অলাভজনক কাজ মনে করে।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী মন্নুজান সুফিয়ান জানিয়েছেন, সরকার শিশুশ্রম বন্ধে কাজ করছে। শিশুশ্রম নিরুৎসাহিত করতে স্কুলগামী শিশুদের নগদ অর্থ, খাবারসহ নানা সুবিধা দিচ্ছে সরকার। সরকারের লক্ষ্যমাত্রা অনুযায়ী আগামী ২০২৫ সালের মধ্যে শিশুশ্রম বন্ধে শতভাগ সফলতা আসবে বলেও জানান তিনি।

/এফএ/

সম্পর্কিত

ঢাকায় এলো উপহারের ২৫০টি ভেন্টিলেটর

ঢাকায় এলো উপহারের ২৫০টি ভেন্টিলেটর

২০২২ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট স্থগিত

২০২২ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট স্থগিত

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

‘অন্য দেশে স্বাস্থ্যকর্মীদের স্যালুট দেয়, আর আমাদের দেশে অপমান’

‘অন্য দেশে স্বাস্থ্যকর্মীদের স্যালুট দেয়, আর আমাদের দেশে অপমান’

ঢাকায় এলো উপহারের ২৫০টি ভেন্টিলেটর

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ০০:২৪

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আহ্বানে সাড়া দিয়ে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিতে ২৫০টি পোর্টেবল ভেন্টিলেটর মেশিন উপহার হিসেবে পাঠিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রপ্রবাসী একদল চিকিৎসক। শনিবার (২৪ জুলাই) রাত সাড়ে ৮টায় হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে বিমান বাংলাদেশের এয়ারলাইন্সের একটি কার্গো ফ্লাইটে এসে পৌঁছায়। প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত চিকিৎসক অধ্যাপক ডা. এ বি এম আবদুল্লাহ প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের পক্ষে এই উপহার গ্রহণ করেন।

যুক্তরাষ্ট্রপ্রবাসী ডা. জিয়া আহমেদ সাজেদ, ডা. মাসুদুল হাসান, ডা. চৌধুরী হাফিজ হাসান, ডা. মাহমুদুল শামস বাপ্পি ও কানাডাপ্রবাসী ডা. আরিফুর রহমান মোবাইল ভেন্টিলেটরগুলো সংগ্রহ করে দেশের জন্য পাঠিয়েছেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, নতুন দিল্লি থেকে এই উপহারের মোবাইল ভেন্টিলেশন দেশে পাঠানোর জন্য পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, নতুন দিল্লির বাংলাদেশ হাইকমিশনের কর্মকর্তারা নিরলস প্রচেষ্টা চালিয়েছেন। এছাড়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে তার ব্যক্তিগত চিকিৎসক অধ্যাপক ডা. এ বি এম আবদুল্লাহ, প্রধানমন্ত্রীর এপিএস-১, দিল্লিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার এই বিষয়ে সর্বাত্মক সহযোগিতা করেছেন।

উপহার গ্রহণের পর ডা. এ বি এম আবদুল্লাহ বলেন, ভেন্টিলেটরগুলো আপাতত সিএমএসডিতে রেখে দেওয়া হচ্ছে। আমরা পরবর্তী সময়ে মিটিং করে ঠিক করবো কোথায় কোথায় এই ভেন্টিলেটরগুলো দেওয়া হবে। বিভিন্ন জেলা-উপজেলায়, যেখানে প্রান্তিক জনগোষ্ঠী যাতে করে এর সুবিধা পেতে পারে- সেজন্য আমরা যথাযথ ব্যবস্থা নেবো। আমি মনে করি এটা আমাদের দেশের জন্য ভালো একটি উদ্যোগ।

তিনি আরও বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর তত্ত্বাবধায়নে এসব হচ্ছে, তার নির্দেশনায় এগুলো আসছে। তিনি সার্বক্ষণিক খোঁজ রাখছেন।

ডা. আবদুল্লাহ বলেন, এগুলো ব্যবহার করা খুব সহজ। এক একটির দাম আমি যতদূর জানি ১৫-১৬ হাজার ডলার। আমরা আপাতত এই ২৫০টি ভেন্টিলেটর ব্যবহার করতে থাকি, আমাদের একটা অভিজ্ঞতা হোক। যদি ভালো হয় তাদের আমি আরও পাঠানোর অনুরোধ করবো। এগুলো তো আমাদের দেশের মানুষের জন্যই। এটি সহজেই বহনযোগ্য। জেলা উপজেলা পর্যায়ে সহজে নিয়ে যাওয়া যাবে। এখন এটা ব্যক্তিগত উদ্যোগে এসেছে, ভবিষ্যতে সরকারিভাবে সংগ্রহের চেষ্টা করা হবে।

এদিকে নয়াদিল্লির বাংলাদেশ হাইকমিশন জানায়, কোভিড-১৯ আক্রান্তদের ব্যবহারের জন্য মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক একটি দাতব্য প্রতিষ্ঠান হেলথকিউব নামে একটি প্রতিষ্ঠানের তত্ত্বাবধানে কয়েকশ পোর্টেবল ভেন্টিলেটর যুক্তরাষ্ট্র থেকে ভারতে পাঠিয়েছে। এর মধ্যে ২৫০টি ভেন্টিলেটর বাংলাদেশে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। বিকেল ৪টার দিকে ভেন্টিলেটরবাহী ফ্লাইটটি নয়াদিল্লি বিমানবন্দর থেকে রওনা করে রাতে ঢাকার শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এসে পৌঁছায়।

/এসও/ইউএস/

সম্পর্কিত

২০২২ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট স্থগিত

২০২২ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট স্থগিত

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

‘অন্য দেশে স্বাস্থ্যকর্মীদের স্যালুট দেয়, আর আমাদের দেশে অপমান’

‘অন্য দেশে স্বাস্থ্যকর্মীদের স্যালুট দেয়, আর আমাদের দেশে অপমান’

রেমিট্যান্স ভালো পাচ্ছি স্বাস্থ্যসেবার কারণে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

রেমিট্যান্স ভালো পাচ্ছি স্বাস্থ্যসেবার কারণে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের নামে সোনালী ব্যাংকে হিসাব খোলার নির্দেশ

আপডেট : ২৪ জুলাই ২০২১, ২১:৪৩

মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ইংরেজি নামে (হুবহু) সোনালী ব্যাংকে অ্যাকাউন্ট করার নির্দেশ দিয়েছে ঢাকা শিক্ষা বোর্ড।  ব্যাংক হিসাব খুলে আগামী ১০ আগস্টের মধ্যে শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইটের মাধ্যমে তথ্য দিতে বলা হয়েছে। গত ১৯ জুলাই সই করা নির্দেশনাটি শনিবার (২৪ জুলাই) ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হয়।

শিক্ষা বোর্ডের অফিস আদেশে জানানো হয়, বোর্ডের প্রায় সকল আর্থিক লেনদেন সোনালী ব্যাংকের মাধ্যমে করা হয়। বোর্ডের বিভিন্ন ধরনের ফি সংগ্রহ বা প্রয়োজনে প্রতিষ্ঠানকে কোনও অর্থ প্রদান বা যেকোনও ধরনের লেনদেন সহজে সুষ্ঠুভাবে পরিচালনার জন্য প্রতিটি প্রতিষ্ঠানের নামে সোনালী ব্যাংকে অ্যাকাউন্ট থাকা একান্ত জরুরি। এক্ষেত্রে সেসব প্রতিষ্ঠানের আগেই হুবহু প্রতিষ্ঠানের ইংরেজি নামে সোনালী ব্যাংকে অ্যাকাউন্ট আছে সেসব প্রতিষ্ঠানের নতুন করে অ্যাকাউন্ট করার প্রয়োজন নেই। তবে অ্যাকাউন্টের নাম অবশ্যই ইংরেজিতে হতে হবে। বোর্ডের ওয়েবসাইটে কলেজের নাম যেভাবে ইংরেজিতে আছে হুবহু সেভাবেই অ্যাকাউন্টের নাম নির্ধারণ করতে হবে অন্যথায় অ্যাকাউন্ট নম্বর গ্রহণযোগ্য হবে না।  তবে অ্যাকাউন্ট করা থাকলে হুবহু কলেজের নামে ব্যাংকের মাধ্যমে সংশোধন করা যাবে।

এছাড়া বিভিন্ন মোবাইল ফিন্যান্সিয়াল সার্ভিসের (এমএফএস) মাধ্যমে লেনদেন করার জন্য বোর্ড থেকে প্রদত্ত ইআইআইএন ভিত্তিক সিমে নগদ, বিকাশ, রকেট, ইউপে, শিওর ক্যাশ ইত্যাদি অপারেটরের মাধ্যমে স্বয়ংক্রিয়ভাবে মার্চেন্ট অ্যাকাউন্ট খুলতে হবে।
 
যেসব প্রতিষ্ঠানের আগে থেকেই ইংরেজি নামে অ্যাকাউন্ট খোলা আছে সেসব প্রতিষ্ঠানসহ সব প্রতিষ্ঠানকে আগামী ১০ আগস্টের মধ্যে বোর্ডের ওয়েবসাইটে অ্যাকাউন্ট নম্বরসহ অন্যান্য তথ্য দিতে বলা হয় অফিস আদেশে।

/এসএমএ/এমআর/

সম্পর্কিত

২০২২ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট স্থগিত

২০২২ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট স্থগিত

ভিকারুননিসার উন্নয়ন প্রকল্পে দুর্নীতির সরেজমিন তদন্তে ইইডি

ভিকারুননিসার উন্নয়ন প্রকল্পে দুর্নীতির সরেজমিন তদন্তে ইইডি

প্রাথমিকে অনলাইন বদলি কবে?

প্রাথমিকে অনলাইন বদলি কবে?

অধ্যক্ষের চেয়ে বেশি বেতন পান তৃতীয় শ্রেণির কর্মচারী

অধ্যক্ষের চেয়ে বেশি বেতন পান তৃতীয় শ্রেণির কর্মচারী

২০২২ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট স্থগিত

আপডেট : ২৪ জুলাই ২০২১, ২০:১৮


করোনাভাইরাসের ভয়াবহ প্রকোপ ঠেকাতে সরকার আরোপিত কঠোর বিধিনিষেধের কারণে ২০২২ সালের উচ্চ মাধ্যমিক (এইচএসসি) ও সমমানের পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট কার্যক্রম স্থগিত করা হয়েছে।

আজ শনিবার (২৪ জুলাই) মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতর এ সংক্রান্ত অফিস আদেশ জারি করে।

আদেশে জানানো হয়, ২০২২ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের জন্য জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তুক বোর্ড (এনসিটিবি) প্রণীত অ্যাসাইনমেন্ট কার্যক্রম গত ১৪ জুন থেকে চলমান। ইতোমধ্যে গ্রেডভিত্তিক চতুর্থ সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট প্রকাশ করা হয়েছে। কোভিড-১৯ জনিত সংক্রমণ রোধে সররকার আরোপিত বিধিনিষেধের কারণ এ অ্যাসাইনমেন্ট কার্যক্রম পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত স্থগিত থাকবে।

/এসএমএ/ইউএস/

সম্পর্কিত

ঢাকায় এলো উপহারের ২৫০টি ভেন্টিলেটর

ঢাকায় এলো উপহারের ২৫০টি ভেন্টিলেটর

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের নামে সোনালী ব্যাংকে হিসাব খোলার নির্দেশ

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের নামে সোনালী ব্যাংকে হিসাব খোলার নির্দেশ

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

‘অন্য দেশে স্বাস্থ্যকর্মীদের স্যালুট দেয়, আর আমাদের দেশে অপমান’

‘অন্য দেশে স্বাস্থ্যকর্মীদের স্যালুট দেয়, আর আমাদের দেশে অপমান’

লকডাউন অমান্য: রাজধানীতে গ্রেফতার ৩৮৩ জন

আপডেট : ২৪ জুলাই ২০২১, ২০:১৮

কঠোর লকডাউনের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করায় আজ শনিবার রাজধানীতে ৩৮৩ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

শনিবার (২৪ জুলাই) সন্ধ্যায় ঢাকা মহানগর পুলিশ-ডিএমপির জনসংযোগ ও গণমাধ্যম শাখার অতিরিক্ত উপ-কমিশনার ইফতেখায়রুল ইসলাম বাংলা ট্রিবিউনকে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

কঠোর লকডাউনের দুদিনে ঢাকায় মোট গ্রেফতার হলেন ৭৮৬ জন।

উপ-কমিশনার জানান, লকডাউন অমান্য করে করে অহেতুক ঘোরাফেরা করার দায়ে দ্বিতীয় দিনে ৩৮৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

এছাড়াও মোবাইল কোর্টে ১৩৭ জনকে ৯৫ হাজার ২৩০ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

অপরদিকে, ডিএমপির ট্রাফিক বিভাগ ৪৪১টি গাড়িকে ১০ লাখ ৮৩ হাজার টাকা জরিমানা করেছে।

প্রসঙ্গত, ২৩ জুলাই থেকে ৫ আগস্ট পর্যন্ত কঠোর লকডাউন ঘোষণা করেছে সরকার।

/এআরআর/এমএস/

সম্পর্কিত

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

কামরাঙ্গীরচরে বাসা থেকে মা-মেয়ের লাশ উদ্ধার

কামরাঙ্গীরচরে বাসা থেকে মা-মেয়ের লাশ উদ্ধার

কঠোর লকডাউনের প্রথম দিন ঢাকায় গ্রেফতার চারশতাধিক

কঠোর লকডাউনের প্রথম দিন ঢাকায় গ্রেফতার চারশতাধিক

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

আপডেট : ২৪ জুলাই ২০২১, ২০:২৩

রাজধানীর কমলাপুরে বিআরটিসি ডিপোর ভেতরে পার্কিং করা একটি বাসে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। এতে বাসটি সম্পূর্ণ পুড়ে গেছে। পরে ফায়ার সার্ভিসের চারটি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে অগ্নিকাণ্ডের কারণ এখনও জানা যায়নি।

আজ শনিবার (২৪ জুলাই) সন্ধ্যায় অগ্নিকাণ্ডের এ ঘটনা ঘটে। ফায়ার সার্ভিস সদর দফতরের ডিউটি অফিসার রোজিনা আক্তার বাংলা ট্রিবিউনকে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে কমলাপুরের বিআরটিসি ডিপোর ভেতরে একটি বিআরটিসি বাসে আগুনে ধরে যায়। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের চারটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছে ২০ মিনিটের চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

প্রাথমিকভাবে আগুন লাগার কারণ সম্পর্কে জানা যায়নি বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

/এআরআর/ইউএস/

সম্পর্কিত

ঢাকায় এলো উপহারের ২৫০টি ভেন্টিলেটর

ঢাকায় এলো উপহারের ২৫০টি ভেন্টিলেটর

২০২২ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট স্থগিত

২০২২ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট স্থগিত

লকডাউন অমান্য: রাজধানীতে গ্রেফতার ৩৮৩ জন

লকডাউন অমান্য: রাজধানীতে গ্রেফতার ৩৮৩ জন

‘অন্য দেশে স্বাস্থ্যকর্মীদের স্যালুট দেয়, আর আমাদের দেশে অপমান’

‘অন্য দেশে স্বাস্থ্যকর্মীদের স্যালুট দেয়, আর আমাদের দেশে অপমান’

সর্বশেষ

সিরিয়ায় হামলায় তুর্কি সেনা নিহত, আঙ্কারার হুঁশিয়ারি

সিরিয়ায় হামলায় তুর্কি সেনা নিহত, আঙ্কারার হুঁশিয়ারি

লকডাউন বিরোধী বিক্ষোভে উত্তাল দেশে দেশে

লকডাউন বিরোধী বিক্ষোভে উত্তাল দেশে দেশে

ভূমধ্যসাগরে ৫৭৬ অভিবাসন প্রত্যাশী উদ্ধার

ভূমধ্যসাগরে ৫৭৬ অভিবাসন প্রত্যাশী উদ্ধার

অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যা

অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যা

১৫৫ কিলোমিটার বেগে চীনে আঘাত হানছে টাইফুন 'ইন-ফা'

১৫৫ কিলোমিটার বেগে চীনে আঘাত হানছে টাইফুন 'ইন-ফা'

স্ত্রীর সঙ্গে পরকীয়া, পিটিয়ে হত্যার পর ভাসিয়ে দিলেন লাশ

স্ত্রীর সঙ্গে পরকীয়া, পিটিয়ে হত্যার পর ভাসিয়ে দিলেন লাশ

লকডাউনের দ্বিতীয় দিনে ময়মনসিংহে ৪৩৫টি মামলা

লকডাউনের দ্বিতীয় দিনে ময়মনসিংহে ৪৩৫টি মামলা

মাছটি বিক্রি হলো সাড়ে ৪ লাখ টাকায়

মাছটি বিক্রি হলো সাড়ে ৪ লাখ টাকায়

শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে ৭০ বছরের বৃদ্ধ গ্রেফতার

শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে ৭০ বছরের বৃদ্ধ গ্রেফতার

তালেবানের উত্থান, আফগানিস্তানে কারফিউ জারি

তালেবানের উত্থান, আফগানিস্তানে কারফিউ জারি

খেলায় লাল কার্ড দেখানো নিয়ে সংঘর্ষে আহত অর্ধশতাধিক

খেলায় লাল কার্ড দেখানো নিয়ে সংঘর্ষে আহত অর্ধশতাধিক

মাইকে ঘোষণা দিয়ে ২ গ্রামবাসীর সংঘর্ষ

মাইকে ঘোষণা দিয়ে ২ গ্রামবাসীর সংঘর্ষ

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ঢাকায় এলো উপহারের ২৫০টি ভেন্টিলেটর

ঢাকায় এলো উপহারের ২৫০টি ভেন্টিলেটর

২০২২ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট স্থগিত

২০২২ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট স্থগিত

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

‘অন্য দেশে স্বাস্থ্যকর্মীদের স্যালুট দেয়, আর আমাদের দেশে অপমান’

‘অন্য দেশে স্বাস্থ্যকর্মীদের স্যালুট দেয়, আর আমাদের দেশে অপমান’

রেমিট্যান্স ভালো পাচ্ছি স্বাস্থ্যসেবার কারণে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

রেমিট্যান্স ভালো পাচ্ছি স্বাস্থ্যসেবার কারণে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

ফকির আলমগীরের মৃত্যুতে স্পিকার ও মন্ত্রীদের শোক

ফকির আলমগীরের মৃত্যুতে স্পিকার ও মন্ত্রীদের শোক

লকডাউনে সীমিত পরিসরে চলবে হাইকোর্টের বিচার

লকডাউনে সীমিত পরিসরে চলবে হাইকোর্টের বিচার

বেতন ৩০ হাজার, ব্যাংকে লেনদেন শত কোটি টাকা!

বেতন ৩০ হাজার, ব্যাংকে লেনদেন শত কোটি টাকা!

তবুও বাইরে মানুষ

তবুও বাইরে মানুষ

ঈদ উপলক্ষে আত্মীয়ের বাসায় ঘুরতে বেরিয়ে গুনতে হচ্ছে জরিমানা

ঈদ উপলক্ষে আত্মীয়ের বাসায় ঘুরতে বেরিয়ে গুনতে হচ্ছে জরিমানা

© 2021 Bangla Tribune