X
শনিবার, ৩১ জুলাই ২০২১, ১৬ শ্রাবণ ১৪২৮

সেকশনস

আবু ত্ব-হা’র সন্ধান বের করা রাষ্ট্রের দায়িত্ব: বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস

আপডেট : ১৫ জুন ২০২১, ১৯:৫৮

ইসলামী বক্তা আবু ত্ব-হা মুহাম্মদ আদনান নিখোঁজ হওয়ার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস। দলটির নায়েবে আমির মাওলানা রেজাউল করিম জালালী বলেন, নিখোঁজ হওয়া ব্যক্তির সন্ধান বের করা প্রশাসন ও রাষ্ট্রের দায়িত্ব ও কর্তব্য।

মঙ্গলবার (১৫ জুন) দুপুরে পুরানা পল্টনে দারুল খিলাফাহ মিলনায়তনে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস ঢাকা মহানগরীর নেতাদের সঙ্গে এক মতবিনিময় সভায় তিনি এ কথা বলেন।

মাওলানা রেজাউল করিম বলেন, আলোচক ত্ব-হা আদনানসহ চারজন লোক নিখোঁজ, তার পরিবার প্রশাসনের দ্বারে দ্বারে ঘুরেও কোনোও কুলকিনারা পাচ্ছে না। এতে দেশের মানুষের মাঝে হতাশা ও আশঙ্কা তৈরি হচ্ছে, এটা দেশ ও জাতির জন্য অশনি সংকেত।

তিনি আরও বলেন, খুন, ধর্ষণ, মাদাকাসক্তিসহ অনৈতিক কার্যকলাপ সমাজ ও রাষ্ট্রে মহামারির মতো ছড়িয়ে পড়ছে। কেউ কারো জীবন ও মান সন্মানের তোয়াক্কা করছে না। অহরহ আইন নিজের হাতে তুলে নিয়ে প্রকাশ্যে হত্যা করা হচ্ছে, এতে সমাজ ও রাষ্ট্রের শৃঙ্খলা নষ্ট হচ্ছে। রাষ্ট্রকে এসকল বিষয়ে কঠোর ও দায়িত্বশীল ভূমিকা নিতে হবে।

সভায় উপস্থিত ছিলেন দলটির যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা আব্দুল আজীজ, কেন্দ্রীয় অফিস ও সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা আজিজুর রহমান হেলাল, সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা এনামুল হক মুসা, ঢাকা মহানগর সহ-সভাপতি মাওলানা হাসান জুনাইদ, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা আব্দুল মুমিন প্রমুখ।

/সিএ/এমআর/

সম্পর্কিত

ঈদে আহমদ আবদুল কাদেরসহ নেতাকর্মীদের মুক্তি দাবি মজলিসের

ঈদে আহমদ আবদুল কাদেরসহ নেতাকর্মীদের মুক্তি দাবি মজলিসের

ইকবাল হোসেনের মৃত্যুর বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি

ইকবাল হোসেনের মৃত্যুর বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি

মধ্যম আয়ের দেশ একটি মিথ: মির্জা ফখরুল

আপডেট : ৩০ জুলাই ২০২১, ২০:৫৯

‘সরকার বাংলাদেশকে দুর্নীতিতে পরিপূর্ণ করে ফেলেছে’ বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, ‘সরকার একটা মিথ তৈরি করতে চায়। মিথটা হলো, সাউথ ইস্ট এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে বাংলাদেশ একটা উন্নয়নের রোল মডেল, মধ্যম আয়ের দেশ। ইটস এ টোটালি ভোক্স, একটা মিথ ছাড়া কিছুই না। তারা গোয়েবলসীয় পদ্ধতিতে প্রচার-প্রচারণার মধ্যে দিয়ে আজকে সেই কথাটা প্রতিষ্ঠা করার চেষ্টা করছে।’

শুক্রবার (৩০ জুলাই) এক ভার্চুয়াল আলোচনায় দেশের বর্তমান অর্থনৈতিক অবস্থা তুলে ধরে বিএনপি মহাসচিব এসব কথা বলেন। বিএনপির স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী জাতীয় উদযাপন কমিটির উদ্যোগে বছরব্যাপী অনুষ্ঠানমালার অংশ হিসেবে ‘ব্যক্তি খাত বিকাশে শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান ও মুক্তবাজার অর্থনীতি’ শীর্ষক এই আলোচনা সভা হয়। এতে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য সাবেক বাণিজ্যমন্ত্রী আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী। ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন।

ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, ‘আজকে ব্যাংকিং সেক্টরকে ধ্বংস করে দিয়েছে এই সরকার। শেয়ার মার্কেটকে ধ্বংস করে দিয়েছে। মানি লন্ডারিং এমন পর্যায়ে পৌঁছেছে যে, এখন সরকার নিজে বলছে, এটা নিয়ন্ত্রণ করা দরকার, দুদক চেষ্টা করছে। দুর্ভাগ্য আমাদের, এই কয়েকদিন আগে দেখলাম দুদকের যিনি প্রাক্তন চেয়ারম্যান ছিলেন তার নামেও দুর্নীতির অভিযোগ চলে এসছে।’

তিনি বলেন, ‘এখন এ দেশে প্রায় ৬ কোটি লোক দারিদ্র্যসীমার নিচে। বাস্তব অবস্থাটা কী? আজকে করোনার যে আঘাত এসছে সেই আঘাত সহ্য করতে পারছে না বাংলাদেশ। অর্থনীতি সহ্য করতে পারছে না। আজকে আরও দুই কোটি লোক নতুন করে দরিদ্র হয়ে গেছে। একদিকে কিছু লোক লুটের মধ্য, দুর্নীতির মধ্য দিয়ে হাজার হাজার কোটি টাকার মালিক হয়ে যাচ্ছে, অপরদিকে দরিদ্র মানুষ আরও দরিদ্র হয়ে যাচ্ছে।’

জিয়াউর রহমানের অর্থনৈতিক সংস্কারের কথা তুলে ধরে তিনি বলেন, ‘১৯৭২ সালে পশ্চিমার উন্নত বিশ্ব বলুন, গণতান্ত্রিক বিশ্ব বলুন, তারা মনে করতো যে, বাংলাদেশ ইজ এ বাসকেট কেস, এটা ফেইল্ড স্টেট হয়ে যাবে, এখান থেকে বাঁচানোর কোনও পথ নেই। সেখান থেকে জিয়াউর রহমান সেটাকে তুলে নিয়ে এসেছিলেন ওপরে, একটা পটেনশিয়াল ইকোনমির দেশ হিসেবে। একটা সম্ভাবনাময় জাতি নির্মাণের সুযোগ সৃষ্টি করেছিলেন। তার মধ্যে কোনও সাম্প্রদায়িকতা ছিল না, তার মধ্যে কোনও কুপমণ্ডুকতা ছিল না। একজন আধুনিক মানুষ আধুনিক বাংলাদেশ নির্মাণ করতে চেয়েছিলেন।’

বিএনপির মহাসচিব বলেন, ‘আজকে জিয়াউর রহমান পথ অনুসরণ করে প্রথমে আমাদের দলকে সুসংগঠিত করতে হবে। জনগণকে সঙ্গে নিতে হবে এবং সমস্ত গণতান্ত্রিক শক্তিগুলোকে একীভূত করে সেই গণতন্ত্রকে ছিনিয়ে আনতে হবে। যে গণতন্ত্র আমাদের কাছ থেকে হারিয়ে গেছে। গণতন্ত্রের মাতা বেগম খালেদা জিয়া কারারুদ্ধ আছেন, তাকে মুক্ত করতে হবে। এ দেশের ১৮ কোটি মানুষকে মুক্ত করতে হবে।’

ব্যক্তি খাতের বিকাশের পুরো প্রক্রিয়াটা জিয়াউর রহমানের অবদান বলে মন্তব্য করেন বিএনপি মহাসচিব।

জাতীয় উদযাপন কমিটির আহ্বয়ক ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনের সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব আবদুস সালামের সঞ্চালনায় এ সময় দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য জমিরউদ্দিন সরকার, মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, আবদুল মঈন খান, নজরুল ইসলাম খান, সেলিমা রহমান, ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু, ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল আউয়াল মিন্টু, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষক অর্থনীতিবিদ অধ্যাপক মাহবুব উল্লাহ, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক খন্দকার মোস্তাহিদুর রহমান বক্তব্য রাখেন।

 

/এসটিএস/আইএ/

সম্পর্কিত

রাজনীতিবিদরা রাজনীতিতে নেই: মির্জা ফখরুল

রাজনীতিবিদরা রাজনীতিতে নেই: মির্জা ফখরুল

সরকারের ভুলেই করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ: মির্জা ফখরুল

সরকারের ভুলেই করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ: মির্জা ফখরুল

ড. ইউনূসকে অভিনন্দন জানিয়ে মির্জা ফখরুলের চিঠি

ড. ইউনূসকে অভিনন্দন জানিয়ে মির্জা ফখরুলের চিঠি

মাস্ক পরুন, নিরাপদ থাকুন: মির্জা ফখরুল

মাস্ক পরুন, নিরাপদ থাকুন: মির্জা ফখরুল

শিক্ষার্থীদের ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত: জমিয়ত

আপডেট : ৩০ জুলাই ২০২১, ১৯:৩৪

এক বছরের বেশি সময় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় শিক্ষার্থীদের ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে বলে মনে করে সম্প্রতি ২০ দলীয় জোট ত্যাগ করা জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম। 

দলটির নেতারা এক বিবৃতিতে বলেন, ‘যথাসময়ে সঠিক এবং কার্যকরী পদক্ষেপ না নেওয়ায় করোনায় ক্ষতিগ্রস্তের সংখ্যা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। আক্রান্ত রোগীর সংখ্যাও বেড়ে চলছে। লম্বা সময় পাওয়ার পরও চিকিৎসার জন্য সঠিক এবং কার্যকরী পরিকল্পনা গ্রহণে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছে।’

শুক্রবার (৩০ জুলাই) সন্ধ্যায় গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে জমিয়তের নেতারা এসব কথা বলেন।

বিবৃতিতে জমিয়তের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাওলানা জিয়াউদ্দিন, সহ-সভাপতি মাওলানা ওবায়দুল্লাহ ফারুক, মাওলানা আব্দুর রব ইউসুফী, ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মাওলানা বাহাউদ্দিন যাকারিয়া, মাওলানা আব্দুল বাছির সুনামগঞ্জী, মাওলানা আব্দুল কুদ্দুস, মাওলানা নাজমুল হাসান কাসেমী, মাওলানা আব্দুল কুদ্দুস (মানিকনগর), মাওলানা লোকমান মাজহারীসহ অনেকের নাম উল্লেখ করা হয়।

 

 

/এসটিএস/এনএইচ/

সম্পর্কিত

বিদ্যালয় বন্ধ থাকায় বাল্যবিবাহ দ্বিগুণ বেড়েছে: ঐক্য ন্যাপ

বিদ্যালয় বন্ধ থাকায় বাল্যবিবাহ দ্বিগুণ বেড়েছে: ঐক্য ন্যাপ

করোনায় মারা গেছেন জাসদ-ছাত্রলীগনেতা মামুন

করোনায় মারা গেছেন জাসদ-ছাত্রলীগনেতা মামুন

মণি সিংহের ১২০তম জন্মবার্ষিকী কাল

মণি সিংহের ১২০তম জন্মবার্ষিকী কাল

জাসদকে চীনের ক্ষমতাসীন দলের উপহার  

জাসদকে চীনের ক্ষমতাসীন দলের উপহার  

বিদ্যালয় বন্ধ থাকায় বাল্যবিবাহ দ্বিগুণ বেড়েছে: ঐক্য ন্যাপ

আপডেট : ৩০ জুলাই ২০২১, ১৬:২৩

দীর্ঘদিন কিশোর-কিশোরী, তরুণ-তরুণীর স্কুল-কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ থাকায় তাদের জীবনে হতাশা-অনিশ্চয়তা নেমে এসেছে আর পাশাপাশি বিদ্যালয় বন্ধ ও দারিদ্র্যের কারণে বাল্যবিবাহ দ্বিগুণ বেড়েছে বলে মনে করে ঐক্য ন্যাপ।

শুক্রবার (৩০ জুলাই) বিকালে দলের প্রেস উইং থেকে পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানায় ঐক্য ন্যাপ। 

বৃহস্পতিবার (২৯ জুলাই) কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি মণ্ডলীর ও সম্পাদক মণ্ডলীর সদস্য এবং আমন্ত্রিত জেলা নেতাদের সঙ্গে অনুষ্ঠিত এক ভার্চুয়াল বৈঠকে দলের প্রস্তাবে এ কথা উঠে আসে।

সভায় সভাপতিত্ব করেন ঐক্য ন্যাপ সভাপতি পঙ্কজ ভট্টাচার্য। সভায় সঞ্চালকের দায়িত্ব পালন করেন সাধারণ সম্পাদক আসাদুল্লাহ্ তারেক।

সভায় কয়েকটি প্রস্তাব করা হয়। এরমধ্যে উল্লেখযোগ্য, স্বাস্থ্যবিধি মেনে মাস্ক পরা, সাবান/ছাই দিয়ে বারবার হাত ধোয়া, চলাফেরার সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখাসহ জনগণকে সচেতন করে তোলার জন্য গ্রাম-ইউনিয়ন-উপজেলা-জেলায় প্রশাসনের উদ্যোগের পাশাপাশি ঐক্য ন্যাপসহ সমমনা রাজনৈতিক ও সামাজিক ব্যক্তিকে স্বেচ্ছাসেবার ভূমিকায় নামতে হবে।

ভার্চুয়াল সভায় আলোচনায় অংশ নেন সভাপতি মণ্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট এস এম এ সবুর, আব্দুল মুনায়েম নেহেরু, রঞ্জিত কুমার সাহা, নাসিরু ইসলাম চৌধুরী জুয়েল, আশেক মাহমুদ, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক হারুনার রশিদ ভূঁইয়া, সাংগঠনিক  সম্পাদক নাসির উদ্দিন বাদল, টাঙ্গাইল জেলা নেতা চন্দন কুমার চন্দ, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আবুল কালাম নাঈম, কুমিল্লার মো. বসির নেতৃবৃন্দ প্রমুখ।

 

 

/এসটিএস/এনএইচ/

সম্পর্কিত

শিক্ষার্থীদের ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত: জমিয়ত

শিক্ষার্থীদের ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত: জমিয়ত

করোনায় মারা গেছেন জাসদ-ছাত্রলীগনেতা মামুন

করোনায় মারা গেছেন জাসদ-ছাত্রলীগনেতা মামুন

মণি সিংহের ১২০তম জন্মবার্ষিকী কাল

মণি সিংহের ১২০তম জন্মবার্ষিকী কাল

জাসদকে চীনের ক্ষমতাসীন দলের উপহার  

জাসদকে চীনের ক্ষমতাসীন দলের উপহার  

সৈয়দ আশরাফের ম্যুরাল ভাঙচুরের ঘটনায় জড়িতদের গ্রেফতার ও বিচার দাবি

আপডেট : ৩০ জুলাই ২০২১, ২০:১৬

আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক প্রয়াত সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের ম্যুরাল ভাঙচুরের ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করে ঘটনায় জড়িতদের গ্রেফতার ও বিচার দাবি করেছেন সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলনের সাধারণ সম্পাদক সালেহ আহমেদ।

শুক্রবার (৩০ জুলাই) বিকালে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি এ দাবি জানান।

বিবৃতিতে সালেহ আহমেদ বলেন, ‘বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৮টা থেকে ৯টায় কিশোরগঞ্জ জেলা শহরের আখড়া বাজার ব্রিজ সংলগ্ন সৈয়দ নজরুল ইসলাম চত্বরে অবস্থিত সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের ম্যুরালটি দুর্বৃত্তরা ভাঙচুর করে। এ ঘটনায় কিশোরগঞ্জ পৌরসভার সহকারী প্রকৌশলী মো. আসাদুজ্জামান বাদী হয়ে অজ্ঞাত কয়েকজনের নামে বিশেষ ক্ষমতা আইনে কিশোরগঞ্জ সদর থানায় মামলা করলে এখনও পর্যন্ত কেউ গ্রেফতার হয়নি।’

তিনি বলেন, ‘একটি সভ্য সমাজে এভাবে ম্যুরাল ভাঙচুর অকল্পনীয়। স্থানীয়ভাবে আইনশৃঙ্খলা রক্ষার দায়িত্বে থাকা পুলিশ, প্রশাসন, জনপ্রতিনিধি কেউই এই ঘটনার দায় এড়াতে পারে না। আমরা এই ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত দাবি করছি, একইসাথে অপরাধীদের দ্রুত গ্রেফতার ও কঠোর শাস্তি দাবি জানাচ্ছি।’

/এসটিএস/এমএস/

সম্পর্কিত

দেশবাসীকে খালেদা জিয়ার ঈদের শুভেচ্ছা 

দেশবাসীকে খালেদা জিয়ার ঈদের শুভেচ্ছা 

ধমক দিয়ে সচেতনতা আসে না: মির্জা ফখরুল

ধমক দিয়ে সচেতনতা আসে না: মির্জা ফখরুল

ভ্যাকসিন নিয়ে যারা হাহাকার করে তারা রাজনীতি করছে: ওবায়দুল কাদের

ভ্যাকসিন নিয়ে যারা হাহাকার করে তারা রাজনীতি করছে: ওবায়দুল কাদের

তদন্ত প্রতিবেদন সঠিকভাবে প্রকাশের দাবি মান্নার

তদন্ত প্রতিবেদন সঠিকভাবে প্রকাশের দাবি মান্নার

করোনা মোকাবিলায় লকডাউন কোনও সমাধান নয়: জিএম কাদের

আপডেট : ৩০ জুলাই ২০২১, ১৪:৪৬

জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান ও বিরোধী দলীয় উপনেতা গোলাম মোহাম্মদ (জিএম) কাদের বলেছেন, ‘আমাদের দেশের বিদ্যমান পরিস্থিতিতে করোনা মোকাবিলায় লকডাউন ও কারফিউ কোনও সমাধান নয়। করোনার গণটিকা কর্মসূচি আরও জোরদার করতে হবে। সাধারণ মানুষের জীবনযাত্রা স্বাভাবিক করতে হবে। পাশাপাশি সংক্রমণ প্রবণ এলাকায় করোনা চিকিৎসায় ফিল্ড হাসপাতাল নির্মাণ করে প্রয়োজনীয় সংখ্যক ডাক্তার ও অন্যান্য স্বাস্থ্যকমী নিয়োগ দিতে হবে।’

শুক্রবার (৩০ জুলাই) দুপুরে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে জিএম কাদের এসব কথা বলেন।

জিএম কাদের বলেন, ‘আমাদের দেশের বাস্তবতায় লকডাউন সফল হবে না। লকডাউন চলছে, কিন্তু মানুষকে ঘরে আটকে রাখা সম্ভব হচ্ছে না। বেশির ভাগ দরিদ্র্য মানুষের ঘরে খাবার নেই, পকেটে ওষুধ ও শিশুখাদ্য কেনার পয়সা নেই। এ ধরনের মানুষকে ঘরে আটকে রাখা সম্ভব হচ্ছে না।’

 

/এসটিএস/আইএ/

সম্পর্কিত

আমাদের আন্দোলনে যেতে হবে: মির্জা ফখরুল

আমাদের আন্দোলনে যেতে হবে: মির্জা ফখরুল

জয়ের নেতৃত্বের অপেক্ষায় আগামীর বাংলাদেশ: তথ্য প্রতিমন্ত্রী

জয়ের নেতৃত্বের অপেক্ষায় আগামীর বাংলাদেশ: তথ্য প্রতিমন্ত্রী

ভিকারুননিসায় নতুন অধ্যক্ষ নিয়োগের দাবি মির্জা ফখরুলের

ভিকারুননিসায় নতুন অধ্যক্ষ নিয়োগের দাবি মির্জা ফখরুলের

মণি সিংহের ১২০তম জন্মবার্ষিকী কাল

মণি সিংহের ১২০তম জন্মবার্ষিকী কাল

সর্বশেষ

সার্বভৌম ক্ষমতার ভিত্তিতে সমস্যা সমাধানের আহ্বান

সার্বভৌম ক্ষমতার ভিত্তিতে সমস্যা সমাধানের আহ্বান

৭৮ বছর বয়সে টিকটকে ভাইরাল

৭৮ বছর বয়সে টিকটকে ভাইরাল

বিরল তুষারপাতে ঢেকে গেলো ব্রাজিল

বিরল তুষারপাতে ঢেকে গেলো ব্রাজিল

গাদ্দাফির ছেলে জীবিত, প্রেসিডেন্ট হওয়ার ইঙ্গিত!

গাদ্দাফির ছেলে জীবিত, প্রেসিডেন্ট হওয়ার ইঙ্গিত!

ওমান উপকূলে জাহাজে হামলায় ইরান দায়ী: ইসরায়েল

ওমান উপকূলে জাহাজে হামলায় ইরান দায়ী: ইসরায়েল

সিনহা হত্যা: সাক্ষ্যগ্রহণে থেমে আছে বিচারকাজ

সিনহা হত্যা: সাক্ষ্যগ্রহণে থেমে আছে বিচারকাজ

ইতালি প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা বাড়লো

ইতালি প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা বাড়লো

রুশ সমর্থিত আসাদ বাহিনীর ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় সিরিয়ায় নিহত ১৮

রুশ সমর্থিত আসাদ বাহিনীর ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় সিরিয়ায় নিহত ১৮

৫ আগস্টের আগে কারখানায় যোগ দেওয়া বাধ্যতামূলক নয়: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

৫ আগস্টের আগে কারখানায় যোগ দেওয়া বাধ্যতামূলক নয়: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

ঈদে বিক্রি না হওয়া ‘কালো মানিক’কে নিয়ে বিপাকে খামারি

ঈদে বিক্রি না হওয়া ‘কালো মানিক’কে নিয়ে বিপাকে খামারি

অটোরিকশা থেকে চাঁদা আদায় নিয়ে সংঘর্ষে আহত ১৩

অটোরিকশা থেকে চাঁদা আদায় নিয়ে সংঘর্ষে আহত ১৩

ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রীর বিয়ের আয়োজন করায় বাবার জরিমানা

ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রীর বিয়ের আয়োজন করায় বাবার জরিমানা

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ঈদে আহমদ আবদুল কাদেরসহ নেতাকর্মীদের মুক্তি দাবি মজলিসের

ঈদে আহমদ আবদুল কাদেরসহ নেতাকর্মীদের মুক্তি দাবি মজলিসের

ইকবাল হোসেনের মৃত্যুর বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি

ইকবাল হোসেনের মৃত্যুর বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি

© 2021 Bangla Tribune