X
শনিবার, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ৩১ আশ্বিন ১৪২৮

সেকশনস

ফুলেল শ্রদ্ধায় সিক্ত অভিনেতা ড. ইনামুল হক

আপডেট : ১২ অক্টোবর ২০২১, ১৬:৫১

একুশে পদকপ্রাপ্ত নাট্যাভিনেতা অধ্যাপক ড. ইনামুল হককে ফুলেল শ্রদ্ধায় বিদায় জানালো তার সহকর্মী-শিক্ষার্থীসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষরা।

মঙ্গলবার (১২ অক্টোবর) সকাল সোয়া ১১টায় রাজধানীর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে তার মরদেহ নিয়ে এলে বিভিন্ন স্তরের সংগঠন ও শ্রেণি-পেশার মানুষ ফুল দিয়ে তার প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

এ সময় শ্রদ্ধা জানান, তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ, ঢাকা দক্ষিণের মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী, নাট্যজন নাসির উদ্দিন ইউসুফ, আবুল হায়াত, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য মোহাম্মদ আখতারুজ্জামান, অভিনেত্রী শাহনাজ খুশি, তানজিকা আমিন, নাতাশা হায়াত, মোমেনা চৌধুরী, নাট্যকার বৃন্দাবন দাস, অভিনেতা মীর সাব্বির, ফারুক আহমেদ, নির্মাতা অরণ্য আনোয়ার, পিকলু চৌধুরী, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে অসীম কুমার উকিল ও সংসদ সদস্য মেহের আফরোজ চুমকি, নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়, বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট, বাংলাদেশ বেতার-টেলিভিশন শিল্পী সংস্থা, বাঙালি সাংস্কৃতিক বন্ধন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সাংস্কৃতিক বিষয়ক উপ-কমিটি, বাংলাদেশ মহিলা সমিতি, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ, বাংলাদেশ শিশু একাডেমি, টেলিভিশন নাট্যকার সংঘ, ফেডারেশন অব টেলিভিশন প্রফেশনালস অর্গানাইজেশন, বাংলাদেশ ছাত্রলীগসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ। 

শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান বলেন, ‘গভীর শ্রদ্ধা ড. ইনামুল হকের অমর স্মৃতির প্রতি, তার বিদেহী আত্মার প্রতি। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রসায়ন বিভাগের একজন গর্বিত শিক্ষার্থী ছিলেন। এরপর অনেক বছর তিনি বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপনা করেছেন। সবচেয়ে বড় কথা হলো, অধ্যাপনার পাশাপাশি তিনি নিজেকে যেভাবে সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ডের সাথে নিয়োজিত রেখেছেন, একজন অভিনেতা হিসেবে, নাট্যনির্দেশক হিসেবে, এমনকি স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রে মহান মুক্তিযুদ্ধের চেতনা উজ্জীবনে তিনি অসাধারণ ভূমিকা রেখেছেন। সে কারণেই ড. ইনামুল হক শুধু একজন অধ্যাপকই নন, একজন সমাজকর্মী, সমাজ সংস্কারক, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব, সেই হিসেবেই তিনি স্মরণীয় হয়ে থাকবেন।’

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, ‘আমাদের দেশ একটা কঠিন সময়ের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। এই কঠিন সময়ে আমরা হাসতে ভুলে গেছি। ইনামুল হক মানুষকে সব সময় আনন্দ দিয়ে থাকতেন। তিনি হাসতে শিখিয়েছেন। তার প্রস্থানে দুঃখের মধ্যে সামান্যটুকু আনন্দ কে দেবে, আমি জানি না। অভিনয় জগৎ, শিক্ষাজগৎ সর্বত্র সব মানুষের সঙ্গে  জড়িয়ে ধরে তিনি আমাদের কথা বলতে শিখিয়েছেন। আমি অন্তর থেকে তাকে শ্রদ্ধা জানাচ্ছি। অনেক দিন তিনি স্মরণীয় হয়ে থাকবেন।’

ড. ইনামুল হকের মেয়ে হৃদি হক বলেন, ‘তিনি আসলে সবার ছিলেন। ওনার ভাবনায়, চিন্তায়, চেতনায় ছিলে বাংলাদেশ ও মানুষ। এর বাইরে কিচ্ছু ছিল না। তিনি আমাদের সকলের নাট্যগুরু, নাট্যপ্রাণ মানুষ।  সারা জীবন নাটক, থিয়েটার, শিল্পচর্চা, সেই গণআন্দোলনের সময় থেকে শেষ দিন পর্যন্ত বাবা অনুবাদের কাজ করে গেছেন। যেই ভালোবাসা তিনি মানুষকে দিয়েছিলেন, মানুষও তাকে সেই ভালোবাসা দিচ্ছেন।’

অভিনেতা ও ড. ইনামুল হকের জামাতা সাজু খাদেম বলেন, ‘এখনকার মানুষ বাচ্চা নেওয়ার জন্য কেউ আমেরিকা চলে যায়, কানাডায় চলে যায়। আমার শ্বশুর যখন পিএইচডি করতে ম্যানচেস্টারে গিয়েছেন তিনি তখন বিবাহিত ছিলেন। চাইলে তিনি সেখানে সন্তান নিতে পারতেন। কিন্তু তিনি স্বপ্ন দেখেছিলেন, তার সন্তান হবে স্বাধীন বাংলাদেশে। এ রকম একজন দেশপ্রেমিককে আমরা হারিয়েছি, সেটা এই দেশের গ্রেট লস, আমাদের সবার লস। সবাই ওনার জন্য দোয়া করবেন।’

অভিনেতা মীর সাব্বির বলেন, ‘তিনি আমাদের সবার শিক্ষক ও গুরু। একজন অভিনেতা হিসেবে যেমন অগ্রজকে হারিয়েছি, তেমন ছাত্র হিসেবে শিক্ষককে। আমি যে সংগঠনে ছিলাম, নাগরিক নাট্য সম্প্রদায়ের পুরোধা ব্যক্তি ছিলেন তিনি। তার কাছ থেকে যেমন জেনেছি, শিখেছি, তেমনি পিতার আদরও পেয়েছি। চলে যাওয়া মানে প্রস্থান নয়। কিংবদন্তির কখনও প্রস্থান হয় না।’

এদিকে, ইনামুল হকের মরদেহ দুপুর ১টায় তার দীর্ঘদিনের কর্মস্থল বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বুয়েট) নেওয়া হয়েছে। এরপর বাদ জোহর বনানী কবরস্থানে সমাহিত করার কথা রয়েছে এই নাট্যজনকে।

বর্ষীয়ান এ অভিনেতা ১১ অক্টোবর সকালে নিজ বাসায় অসুস্থ হয়ে পড়েন। এরপর বেলা ৩টার দিকে রাজধানীর কাকরাইলে ইসলামী ব্যাংক সেন্ট্রাল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে তাকে মৃত ঘোষণা করা হয়। জানা যায়, হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে তিনি মারা গেছেন।

ছবি: সাজ্জাদ হোসেন ও ওয়ালিউল বিশ্বাস

/এম/এমএম/এমওএফ/

সম্পর্কিত

শাহরুখপুত্রকে ধরতে পরিচিতদের সাক্ষী বানিয়েছিল এনসিবি!

শাহরুখপুত্রকে ধরতে পরিচিতদের সাক্ষী বানিয়েছিল এনসিবি!

পূজার জন্য ১৮ ঘণ্টা নেটওয়ার্কের বাইরে!

পূজার জন্য ১৮ ঘণ্টা নেটওয়ার্কের বাইরে!

ফারুকী নয়, বুসানে পুরস্কার জিতলেন মেন্ডোজা বেট ও অপর্ণা সেন

ফারুকী নয়, বুসানে পুরস্কার জিতলেন মেন্ডোজা বেট ও অপর্ণা সেন

মা-মেয়ের আমেরিকা সফর, উদ্দেশ্য নাগরিকত্বের আবেদন

মা-মেয়ের আমেরিকা সফর, উদ্দেশ্য নাগরিকত্বের আবেদন

শাহরুখপুত্রকে ধরতে পরিচিতদের সাক্ষী বানিয়েছিল এনসিবি!

আপডেট : ১৬ অক্টোবর ২০২১, ১৮:১৪

২ অক্টোবর মুম্বাই উপকূলে প্রমোদতরি থেকে আটক করা হয়েছিল বলিউড তারকা শাহরুখ খানের ছেলে আরিয়ান খানকে। অভিযানটি যেমন এখন আছে আলোচনা তুঙ্গে, তেমনি এটি প্রশ্নবিদ্ধও হয়েছে। এবার সেদিনের সেই রেইড নিয়ে ছবি সমেত প্রশ্ন তুললেন ভারতের মহারাষ্ট্রের একজন মন্ত্রী। 

নবাব মালিক নামের সে রাজনীতিক গত কয়েকদিন ধরেই তদন্তকারী কর্মকর্তা সামির ওয়াংখেড়ের বিরুদ্ধে চাঞ্চল্যকর তথ্য দিয়ে আসছেন। এবার টুইটারে কয়েকটি ছবি প্রকাশ করে দেখিয়েছেন, ২ অক্টোবরের অভিযানে পরিচিত বা কাছের লোকদের সাক্ষী হিসেবে সঙ্গে নিয়ে ঘটনাস্থলে গিয়েছিলেন সামির। যাদের একজন ফ্লেচার পাটেল। 

মন্ত্রী নবাব দুটি ছবি প্রকাশ করেন। যেখানে ফ্লেচারকে কোনও এক অনুষ্ঠানে দেখা যাচ্ছে সামিরের সঙ্গে। অপর ছবিতে সামিরের বোনের সঙ্গেও বেশ ঘনিষ্ঠ সেলিফিতে তাকে পাওয়া যায়।

 

গত সপ্তাহে এই মন্ত্রী কয়েকটি ভিডিও দেখিয়ে অভিযোগ করেছিলেন, ২ অক্টোবর প্রমোদতরিতে মাদক মামলায় ধৃত তিন জনকে অভিযান শেষে ছেড়ে দেওয়া হয়েছিল। 

এনসিবির সঙ্গে বিজেপি ঘনিষ্ঠতার দাবি তুলে নবাব অভিযোগ করেছিলেন, ‘অভিযান শেষে এনসিবির সামির ওয়াংখেড়ে বলেছিলেন ৮ থেকে ১০ জনকে আটক করা হয়েছে। কিন্তু আসল সত্যি হল, সে দিন মোট ১১ জনকে আটক করা হয়। ঋষভ, প্রতীক গাবা ও আমির ফার্নিচারওয়ালা নামে তিনজনকে মুক্তি দেওয়া হয়েছিল।’

নবাবের অভিযোগ করা ঋষভ এক বিজেপি নেতার আত্মীয়। সঠিক তথ্য প্রকাশ্যে আনতে মুম্বাই পুলিশকে দিয়ে তদন্তেরও দাবি করেন এই ভারতীয় সংসদ সদস্য।

সূত্র: ফিনান্সিয়াল এক্সপ্রেস

/এম/এমএম/

সম্পর্কিত

পূজার জন্য ১৮ ঘণ্টা নেটওয়ার্কের বাইরে!

পূজার জন্য ১৮ ঘণ্টা নেটওয়ার্কের বাইরে!

ফারুকী নয়, বুসানে পুরস্কার জিতলেন মেন্ডোজা বেট ও অপর্ণা সেন

ফারুকী নয়, বুসানে পুরস্কার জিতলেন মেন্ডোজা বেট ও অপর্ণা সেন

মা-মেয়ের আমেরিকা সফর, উদ্দেশ্য নাগরিকত্বের আবেদন

মা-মেয়ের আমেরিকা সফর, উদ্দেশ্য নাগরিকত্বের আবেদন

টাকা-ভিডিও কলসহ জেলখানায় যেসব সুবিধা পাচ্ছেন আরিয়ান

টাকা-ভিডিও কলসহ জেলখানায় যেসব সুবিধা পাচ্ছেন আরিয়ান

পূজার জন্য ১৮ ঘণ্টা নেটওয়ার্কের বাইরে!

আপডেট : ১৬ অক্টোবর ২০২১, ১৮:০৫

সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের জন্য কাজী নওশাবার মন বরাবরই উতলা। সুযোগ পেলেই তিনি ছুটে যান চা-অঞ্চলে। এই তো কিছুদিন আগেও একমাত্র কন্যা প্রকৃতির জন্মদিন করলেন সিলেট অঞ্চলে গিয়ে, চা-বাগানের শিশুদের সঙ্গে।

মূলত তখনই ঐ শিশুরা একটা আবদার করে তাদের প্রিয় বন্ধু নওশাবার কাছে। আর সেটি রক্ষা করতে গিয়ে এই অভিনেত্রী এবার টানা ১৮ ঘণ্টা ছিলেন নেটওয়ার্কের বাইরে!

শুক্রবার রাত ১১টা নাগাদ নেটওয়ার্কে ফিরে নওশাবা কথা বলেন বাংলা ট্রিবিউন-এর সঙ্গে। জানান, এবার তিনি পূজা উৎসব করতে ঢাকা থেকে ছুটে যান শ্রীমঙ্গলের গভীরে। এতোটাই গভীর, মোবাইল নেটওয়ার্কও নেই। প্রায় ১৮ ঘণ্টা ছিলেন সেখানে। বললেন, ‘এর আগে আমার মেয়ে প্রকৃতির জন্মদিনটা এখানকার বাচ্চাদের সঙ্গে পালন করি। তখনই বাচ্চারা বায়না করলো, এবারের পুজোটা তাদের সঙ্গে থাকতে। তো আমিও ঢাকায় বসে ওদেরকে একটা সারপ্রাইজ দেওয়ার পরিকল্পনা করি। অবশেষে সেটি সফলভাবে শেষ করতে পেরে কি যে আনন্দ লাগছে, বুঝাতে পারবো না।’

কাজী নওশাবা পূজার অষ্টমীর দিন কোরিওগ্রাফার আলিফকে নিয়ে ঢাকা থেকে যান শ্রীমঙ্গলের নিঝুম ঐ চা বাগানে। প্রাসঙ্গিক কারণেই বাগানের নাম/ঠিকানা বলতে চাইছেন না নওশাবা। তো সেখানকার ১০/১২ জন শিশু-কিশোরদের নিয়ে নওশাবা-আলিফ নাচের প্র্যাকটিস করার সুযোগ পান মাত্র ২/৩ ঘণ্টা। এটা ১৩ অক্টোবরের খবর। এরপর ১৪ অক্টোবর নবমীর দিন স্থানীয় পূজা মণ্ডপে সেই নাচ পরিবেশন করেন তারা। নওশাবা ও আলিফ ঢাকায় ফিরে আসেন ১৫ অক্টোবর রাতে।      

নওশাবা বলেন, ‘চা বাগানের শিশুদের সাথে প্রায়ই আমি সময় কাটাই। অনেকেই সেটা জানেন। তো এবার যখন প্ল্যান করলাম পূজায় ওখানে যাবো, তখন সিদ্ধান্ত নিলাম নাচের। কোরিওগ্রাফার আলিফের সঙ্গে আলাপ করলাম। ও একটু দ্বিধা করলো। ওকে আশ্বস্ত করে বললাম, ওরা আসাম-ত্রিপুরার মানুষ। ওদের রক্তে নাচ আর তাল বহমান। আমরা নাচ শেখালে ওরা সবচেয়ে আনন্দ পাবে। যেমনটা ভেবেছি, তাই হলো। শিশুরা তো নাচলোই, ওদের বাবা-মা’রাও আমাদের নাচের তালে মিশে গেল। নবমীর রাতে আমরা সবাই মিলে মণ্ডপে নাচলাম। সেটা আমার জন্য স্বর্গীয় সুখের মতো ছিলো।’ 

পূজা উৎসবকে ঘিরে সাম্প্রতিক নেতিবাচক কিছু ঘটনার প্রতি দৃষ্টি রেখে নওশাবা বলতে চাইলেন, ‘শ্রীমঙ্গলে যে কাজটি করলাম, সেটাই আসলে আসল বাংলাদেশ। সেটাই সম্প্রীতির বাংলাদেশ। ধর্ম-বর্ণ ভেদ করে আমাদের মিশে যেতে হবে, এভাবেই। হারাতে হবে নেটওয়ার্কের বাইরে।’

/এমএম/

সম্পর্কিত

নওশাবার স্বল্পদৈর্ঘ্য ও পথনাটক চমক (ভিডিও)

নওশাবার স্বল্পদৈর্ঘ্য ও পথনাটক চমক (ভিডিও)

স্কুলে ফিরলেন নওশাবা, ছাত্রী হলেন দশম শ্রেণীর!

স্কুলে ফিরলেন নওশাবা, ছাত্রী হলেন দশম শ্রেণীর!

নওশাবাকে নিয়ে ‘অমানুষ’ নিরবের শেষ দিন

নওশাবাকে নিয়ে ‘অমানুষ’ নিরবের শেষ দিন

কোনও অত্যাচারের পরিণতি ভালো হয় না: নওশাবা

কোনও অত্যাচারের পরিণতি ভালো হয় না: নওশাবা

ফারুকী নয়, বুসানে পুরস্কার জিতলেন মেন্ডোজা বেট ও অপর্ণা সেন

আপডেট : ১৬ অক্টোবর ২০২১, ১৬:৫৯

জেনসান পাঞ্চ বুসান চলচ্চিত্র উৎসবে এবার বাংলাদেশ থেকে গেছে তিনটি চলচ্চিত্র। তার মধ্যে ‘কিম জি সুক অ্যাওয়ার্ড’র জন্য লড়ছিল মোস্তফা সরয়ার ফারুকীর ‘নো ল্যান্ডস ম্যান’। 

প্রদর্শনের পর ছবিটি নিয়ে প্রত্যাশা বেড়ে গিয়েছিল বাংলাদেশিদের। তবে শেষ হাসি হেসেছেন ফিলিপাইনের নির্মাতা মেন্ডোজা বেট ও ভারতের অপর্ণা সেন। মেন্ডোজার চলচ্চিত্র ‌‘জেনসান পাঞ্চ’ ও অপর্ণার ‘দ্য রেপিস্ট’ যৌথভাবে জিতে নিয়েছে ২৬তম বুসান চলচ্চিত্র উৎসবের কিম জি সুক অ্যাওয়ার্ড।

গতকাল (১৫ অক্টোবর) পুরস্কারটি ঘোষণা করা হয়। এইচবিও এশিয়া অরিজিনালের ‘জেনসান পাঞ্চ’ ছবিটি ফিলিপাইন ও জাপানের যৌথ প্রযোজনায় নির্মিত। নির্মাতা মেন্ডোজা বেট এর আগে বহু আন্তর্জাতিক পুরস্কার পেয়েছেন। 

দ্য রেপিস্ট অন্যদিকে ভারতীয় সিনেমা ‘দ্য রেপিস্ট’। যে সিনেমাটি পরিচালনা করেছেন অপর্ণা সেন। তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন এই নির্মাতা। অপর্ণা সেন বলেন, ‘এই পুরস্কারটি আমার জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ, কারণ বেশ কয়েক বছর আগে বুসানে জুরি হিসেবে ছিলাম তখন উৎসবের সাবেক পরিচালক কিম জি সুকের সাথে আমার পরিচয় ঘটে। তিনি এমন একজন সিনেমা অন্তপ্রাণ মানুষ ছিলেন, যিনি এশিয়ার সিনেমাকে বিশ্বের কাছে পৌঁছে দিতে সর্বোচ্চ চেষ্টা করতেন।’

এদিকে ‘জেনসান পাঞ্চ’ সিনেমাটি এক সত্য ঘটনা অবলম্বনে তৈরি। এর মূল ভূমিকায় আছেন নাওজুমি সুচিয়ামা নামের এক তরুণ। যার একটি পা কৃত্রিম। তবে সে প্রতিকূলতা পেছনে ফেলে তিনি বক্সার হওয়ার উদ্দেশে ফিলিপাইনে যান। এবং পেশাদার বক্সার হওয়ার পথে এগিয়ে যান। ‘নো ল্যান্ডস ম্যান’ শুটিংয়ে ফারুকী

‘কিম জি সুক অ্যাওয়ার্ড’ নির্মাতাদের জন্য বেশ কাঙ্ক্ষিত। এবার বাংলাদেশ ছাড়াও এতে অংশ নিয়েছিল আজারবাইজান, চীন, ভারত, জাপান, ফিলিপাইন ও সিঙ্গাপুরের মতো দেশ।

/এম/এমএম/

সম্পর্কিত

ফারুকীতে মুগ্ধ নওয়াজুদ্দিন, বললেন বিস্তারিত 

ফারুকীতে মুগ্ধ নওয়াজুদ্দিন, বললেন বিস্তারিত 

জিমে ফারিয়া, ইনস্ট্রাক্টর ফারুকী!

জিমে ফারিয়া, ইনস্ট্রাক্টর ফারুকী!

বুসান উৎসবে প্রথমবার বাংলাদেশের তিন ছবি

বুসান উৎসবে প্রথমবার বাংলাদেশের তিন ছবি

ফারুকী টিমকে এ আর রাহমানের  শুভেচ্ছাবার্তা

ফারুকী টিমকে এ আর রাহমানের শুভেচ্ছাবার্তা

মা-মেয়ের আমেরিকা সফর, উদ্দেশ্য নাগরিকত্বের আবেদন

আপডেট : ১৬ অক্টোবর ২০২১, ১৫:৫৯

ওমর সানী-মৌসুমীর সন্তান ফারদিন এহসান স্বাধীন এর আগে আমেরিকায় পড়াশোনা করেছেন। এবার মেয়ে ফাইজাও গেলেন একই উদ্দেশে। পাশাপাশি তিনি এবার যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিকত্বের জন্যও আবেদন করবেন। এ কারণে সঙ্গে গেছেন মা চিত্রনায়িকা মৌসুমী। 

ফাইজাকে নিয়ে গত ১৪ অক্টোবর যুক্তরাষ্ট্রের উদ্দেশে ঢাকা ছেড়েছেন তিনি। আগামী ২৯ অক্টোবর মেয়ের ১৮ বছর পূর্ণ হবে। এরপর তিনি নাগরিকত্বের জন্য যুক্তরাষ্ট্রের আইডি কার্ড এবং অন্য কাগজপত্রের জন্য আবেদন করবেন।

সানী জানান, প্রায় ২০ দিন যুক্তরাষ্ট্রে থাকবেন মৌসুমী। এই সময়ে মেয়ের আইডি কার্ডসহ কাগজপত্রের জন্য আবেদনের পাশাপাশি তাকে সেখানকার বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির বিষয়ে খোঁজ-খবর নেওয়া হবে। এছাড়া সেখানে বসবাস করা মৌসুমীর মা-বোনসহ অন্য আত্মীয়দের সঙ্গেও সময় কাটাবেন তারা।

সানী বলেন, ‘আমার নিজেরও স্ত্রী-কন্যার সঙ্গে যাওয়ার ইচ্ছে ছিল। কিন্তু ভিসা জটিলতায় যেতে পারলাম না।’

ফলে আগামী ৩ নভেম্বর মৌসুমীর জন্মদিনেও পাশে থাকা হবে না তার। যুক্তরাষ্ট্রেই মেয়ে এবং অন্য আত্মীয়দের সঙ্গে এবারের জন্মদিন পালন করবেন প্রিয়দর্শিনীখ্যাত এই চিত্রনায়িকা।

উল্লেখ্য, ঢাকাই সিনেমার তারকা দম্পতি ওমর সানী ও মৌসুমী। গত মার্চে বিবাহিত জীবনের ২৬ বছর পূর্ণ করেছেন তারা। সানী-মৌসুমীর সংসারে রয়েছে দুই সন্তান ফারদিন এহসান স্বাধীন ও ফাইজা।

/এম/এমএম/

সম্পর্কিত

শাহরুখপুত্রকে ধরতে পরিচিতদের সাক্ষী বানিয়েছিল এনসিবি!

শাহরুখপুত্রকে ধরতে পরিচিতদের সাক্ষী বানিয়েছিল এনসিবি!

পূজার জন্য ১৮ ঘণ্টা নেটওয়ার্কের বাইরে!

পূজার জন্য ১৮ ঘণ্টা নেটওয়ার্কের বাইরে!

ফারুকী নয়, বুসানে পুরস্কার জিতলেন মেন্ডোজা বেট ও অপর্ণা সেন

ফারুকী নয়, বুসানে পুরস্কার জিতলেন মেন্ডোজা বেট ও অপর্ণা সেন

টাকা-ভিডিও কলসহ জেলখানায় যেসব সুবিধা পাচ্ছেন আরিয়ান

টাকা-ভিডিও কলসহ জেলখানায় যেসব সুবিধা পাচ্ছেন আরিয়ান

টাকা-ভিডিও কলসহ জেলখানায় যেসব সুবিধা পাচ্ছেন আরিয়ান

আপডেট : ১৬ অক্টোবর ২০২১, ১৪:২৪

যশ চোপড়ার ‘বীর জারা’ ছবিতে শাহরুখ খান ছিলেন কয়েদি। নম্বর ছিল ৭৮৬। তাকে নম্বর দিয়েই আদালতে পরিচয় করিয়ে দেওয়া হতো। ঠিক একই ভাগ্য বরণ করতে হলো ছেলে আরিয়ান খানকেও। সম্প্রতি হওয়া মাদক মামলায় অভিযুক্ত শাহরুখপুত্র আরিয়ান খান হলেন ৯৫৬ নম্বর কয়েদি। থাকতে হচ্ছে মুম্বাইয়ের আর্থার রোডের এক কারাগারে।

বাস্তবে ছেলের জীবনে এমনটা ঘটবে তা হয়তো কখনও ভাবেননি শাহরুখ বা তার ভক্তরা।

অন্যদিকে সুপারস্টারের ছেলে হলেও বাড়তি কোনও সুবিধা পাবেন না বলে জানিয়েছে কারা কর্তৃপক্ষ।

তাই অন্য কয়েদির মতোই সপ্তাহে দুদিন ভিডিও বা কল করতে পারবেন তিনি। পরিবার থেকে নিতে পারবেন রুপিও। তবে তা নির্দিষ্ট পরিমাণে। তাই আয়ের দিক থেকে ভারতের শীর্ষ তারকা হলেও শাহরুখ তার ছেলের জন্য দিতে পারবেন মাত্র ৪ হাজার ৫০০ রুপি!

যেখানে শাহরুখের এক বছরে আয় হয় ৩০০ কোটি রুপির বেশি। 

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আরিয়ানকে তার পরিবারের সঙ্গে কথা বলতে একটি সংক্ষিপ্ত ভিডিও কলের অনুমতি দেওয়া হয়েছিল। হাইকোর্টের আদেশের সঙ্গে মিল রেখে এই অনুমতি দেওয়া হয়।

তবে, আরিয়ানকে কখন মানি অর্ডার পাঠানো হয়েছিল এবং কখন ভিডিও কলটি করা হয়েছিল, তা স্পষ্ট নয়। 
জেলের সুপার নিতিন ওয়েচাল জানিয়েছেন, আরিয়ানকে জেলের খাবার দেওয়া হচ্ছে। আদালত আদেশ না দেওয়া পর্যন্ত তাকে বাড়ি বা বাইরের কোনও খাবার পরিবেশন করা হবে না।

জেলের খানা-খাদ্যের বাইরে আরিয়ান জেল ক্যান্টিন থেকে পাঠানো টাকায় খাবার কিনতে পারবেন। 

টাইমস অব ইন্ডিয়ায় প্রকাশিত একটি রিপোর্ট অনুযায়ী, আর্থার রোড জেলের ক্যান্টিনে পাউরুটি, নোনতা ভাজা, ভেল পুরি, বড়া পাও, শিঙারা, চিকেন থালি, এগ থালি, মিনারেল ওয়াটার ও ফ্রুট জুস পাওয়া যায়। এগুলোই এখন শাহরুখপুত্রের ভরসা।

উল্লেখ্য, গত পরশু (১৪ অক্টোবর) সন্ধ্যায় মুম্বাই ড্রাগস-অন-ক্রুজ মামলায় চতুর্থবারের মতো জামিন নাকচ করে কারাগারে ফেরত পাঠানো হয়। আগামী ২০ অক্টোবর পর্যন্ত আরিয়ানকে সেখানেই থাকতে হবে। ইতোমধ্যে ১৩ দিন কারাগারে কাটিয়েছেন এই তারকাপুত্র।

উল্লেখ্য, ২ অক্টোবর মুম্বাইয়ে গোয়াগামী প্রমোদতরি থেকে আটক হন শাহরুখপুত্র আরিয়ান খান।

জানা যায়, শাহরুখের ছেলেকে নারকোটিক ড্রাগস অ্যান্ড সাইকোট্রপিক সাবস্ট্যান্সেস (এনডিপিএস)-আইনের আওতায় গ্রেফতার করা হয়েছে। পরোয়ানায় লেখা রয়েছে, ৩০ গ্রাম কোকেন, ২১ গ্রাম চরস, ২২টি এমডিএমএ বড়ি ও নগদ ১,৩৩,০০০ টাকা উদ্ধার হয়েছে মুম্বাই থেকে গোয়াগামী প্রমোদতরির টার্মিনালে।

এনসিবি সূত্রে খবর, শাহরুখপুত্রের সরঞ্জাম থেকেও মাদক উদ্ধার হয়েছে। তার লেন্স রাখার বাক্সে নেশাদ্রব্য পাওয়া গেছে। সেই পার্টিতে জামাকাপড়ের সেলাই, মেয়েদের ব্যাগের হাতলের মধ্যেও লুকিয়ে রাখা হয়েছিল মাদক। আটকের আগে আরিয়ান চরস খেয়েছিলেন।

সূত্র: এনডিটিভি

/এম/এমএম/

সম্পর্কিত

শাহরুখপুত্রকে ধরতে পরিচিতদের সাক্ষী বানিয়েছিল এনসিবি!

শাহরুখপুত্রকে ধরতে পরিচিতদের সাক্ষী বানিয়েছিল এনসিবি!

পূজার জন্য ১৮ ঘণ্টা নেটওয়ার্কের বাইরে!

পূজার জন্য ১৮ ঘণ্টা নেটওয়ার্কের বাইরে!

ফারুকী নয়, বুসানে পুরস্কার জিতলেন মেন্ডোজা বেট ও অপর্ণা সেন

ফারুকী নয়, বুসানে পুরস্কার জিতলেন মেন্ডোজা বেট ও অপর্ণা সেন

মা-মেয়ের আমেরিকা সফর, উদ্দেশ্য নাগরিকত্বের আবেদন

মা-মেয়ের আমেরিকা সফর, উদ্দেশ্য নাগরিকত্বের আবেদন

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

শাহরুখপুত্রকে ধরতে পরিচিতদের সাক্ষী বানিয়েছিল এনসিবি!

শাহরুখপুত্রকে ধরতে পরিচিতদের সাক্ষী বানিয়েছিল এনসিবি!

পূজার জন্য ১৮ ঘণ্টা নেটওয়ার্কের বাইরে!

পূজার জন্য ১৮ ঘণ্টা নেটওয়ার্কের বাইরে!

ফারুকী নয়, বুসানে পুরস্কার জিতলেন মেন্ডোজা বেট ও অপর্ণা সেন

ফারুকী নয়, বুসানে পুরস্কার জিতলেন মেন্ডোজা বেট ও অপর্ণা সেন

মা-মেয়ের আমেরিকা সফর, উদ্দেশ্য নাগরিকত্বের আবেদন

মা-মেয়ের আমেরিকা সফর, উদ্দেশ্য নাগরিকত্বের আবেদন

টাকা-ভিডিও কলসহ জেলখানায় যেসব সুবিধা পাচ্ছেন আরিয়ান

টাকা-ভিডিও কলসহ জেলখানায় যেসব সুবিধা পাচ্ছেন আরিয়ান

ইংরেজি ভাষায় গাইলেন সাব্বির নাসির (ভিডিও)

ইংরেজি ভাষায় গাইলেন সাব্বির নাসির (ভিডিও)

গান গেয়ে যুক্তরাজ্যে আলোচিত বাংলা‌দেশি মা‌য়ের সন্তান (ভিডিও)

গান গেয়ে যুক্তরাজ্যে আলোচিত বাংলা‌দেশি মা‌য়ের সন্তান (ভিডিও)

লালন তিরোধান দিবসে সম্মাননা পাচ্ছেন সাত গবেষক-সাধক

লালন তিরোধান দিবসে সম্মাননা পাচ্ছেন সাত গবেষক-সাধক

হলিউডকে না-ও বলেছিলেন তারা

হলিউডকে না-ও বলেছিলেন তারা

বেহুলা হলেন ‘মনপুরা’-খ্যাত ফারহানা মিলি!

বেহুলা হলেন ‘মনপুরা’-খ্যাত ফারহানা মিলি!

সর্বশেষ

ডেঙ্গুতে আক্রান্ত ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং

ডেঙ্গুতে আক্রান্ত ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং

ওমানে বিশ্বকাপে নামছে বাংলাদেশ, দেশে বসে থাকছেন না মুমিনুল-শান্তরাও

ওমানে বিশ্বকাপে নামছে বাংলাদেশ, দেশে বসে থাকছেন না মুমিনুল-শান্তরাও

স্বামীকে হত্যার অভিযোগে স্ত্রী আটক

স্বামীকে হত্যার অভিযোগে স্ত্রী আটক

দিনাজপুরে বজ্রাঘাতে ২ জনের মৃত্যু

দিনাজপুরে বজ্রাঘাতে ২ জনের মৃত্যু

শাহরুখপুত্রকে ধরতে পরিচিতদের সাক্ষী বানিয়েছিল এনসিবি!

শাহরুখপুত্রকে ধরতে পরিচিতদের সাক্ষী বানিয়েছিল এনসিবি!

© 2021 Bangla Tribune