X
মঙ্গলবার, ৩০ নভেম্বর ২০২১, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

সেকশনস

পাত্র দেখানোর কথা বলে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ, ঘটক গ্রেফতার

আপডেট : ১৭ অক্টোবর ২০২১, ১৫:১২

বগুড়ার শিবগঞ্জে বিয়ের পাত্র দেখানোর নামে এক কলেজছাত্রীকে ডেকে নিয়ে আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। ঘটনার তিন দিন পর শনিবার রাতে ‘৯৯৯’ নম্বরে ফোন পেয়ে পুলিশ রহবল এলাকার একটি বাড়ি থেকে ছাত্রীকে উদ্ধার ও ঘটক শাহিনুর রহমানকে (৪৩) গ্রেফতার করেছে। রবিবার (১৭ অক্টোবর) ভিকটিমের বাবা শিবগঞ্জ থানায় ঘটকের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন। পরে ছাত্রীর ডাক্তারি পরীক্ষা শেষে আদালতে ২২ ধারায় জবানবন্দি গ্রহণ করা হয়। 

শিবগঞ্জের ওসি সিরাজুল ইসলাম এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ঘটক এর আগে তিন তরুণীকে পাত্র দেখানোর কথা বলে নিজেই বিয়ে করেন। তবে তার সে সংসার টেকেনি। আসামিকে আদালতের মাধ্যমে বগুড়া জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

পুলিশ ও এজাহার সূত্র জানা যায়, শিবগঞ্জ উপজেলার রায়নগর ইউনিয়নের করতকোলা গ্রামের মৃত মোবারক প্রামাণিকের ছেলে শাহিনুর রহমান বিয়ের ঘটক হিসেবে কাজ করার পাশাপাশি শ্রমিকের কাজ করেন। ঘটক শাহিনুরের সঙ্গে কলেজছাত্রীর বাবার পরিচয় হয়। পরিচয়ের সূত্র ধরে তার মেয়ের জন্য ভালো পাত্রের সন্ধান দেন। পাত্র দেখানোর নামে তিনি ছাত্রীকে বিভিন্ন জায়গায় নিয়ে যান। 

গত ১৩ অক্টোবর বেলা ১০টার দিকে ছাত্রী কলেজে যাওয়ার জন্য বাড়ি থেকে বের হয়। তবে সন্ধ্যা পেরিয়ে গেলেও বাড়ি না ফেরায় পরিবারের সদস্যরা চিন্তিত হয়ে পড়েন। বাড়িতে গিয়ে ঘটককে না পেয়ে তাদের সন্দেহ হয়। কল দিলেও ঘটক তা ধরেননি।

এদিকে ঘটক শাহিনুর ওই ছাত্রীকে বর দেখানোর নামে কৌশলে অপহরণ করে উপজেলার রহবল এলাকায় এক আত্মীয়ের বাড়িতে নিয়ে যান। সেখানে তাকে আটকে রেখে ধর্ষণ করা হয়। টের পেয়ে ১৬ অক্টোবর রাতে পরিবারের সদস্যরা সেখানে গেলে ঘটক পালানোর চেষ্টা করে। তখন প্রতিবেশীরা ‘৯৯৯’ নম্বরে ফোন দিলে পুলিশ এসে ঘটক শাহিনুরকে গ্রেফতার ও কলেজছাত্রীকে উদ্ধার করে।

ওসি আরও জানান, ঘটক শাহিনুর রহমান একজন প্রতারক। তিনি এর আগে ভালো ছেলের সঙ্গে বিয়ে দেওয়ার কথা বলে নিজেই তিন নারীকে বিয়ে করেন। পরে নারীরা তাকে ছেড়ে চলে গেছেন। অপরহণের পর আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগ ছাত্রীর বাবা ঘটকের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন। তাকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। এছাড়া ছাত্রীর ডাক্তারি পরীক্ষা ও আদালতে ২২ ধারায় জবানবন্দি রেকর্ড করা হয়েছে।

 

/টিটি/

সম্পর্কিত

নির্বাচনি সহিংসতায় প্রাণ গেলো এসএসসি পরীক্ষার্থীর

নির্বাচনি সহিংসতায় প্রাণ গেলো এসএসসি পরীক্ষার্থীর

টুকুপুত্রের বিশাল জয়ে জামানত হারালেন সব প্রার্থী

টুকুপুত্রের বিশাল জয়ে জামানত হারালেন সব প্রার্থী

বগুড়ার ৮ ইউনিয়নের ছয়টিতে নৌকার পরাজয়

বগুড়ার ৮ ইউনিয়নের ছয়টিতে নৌকার পরাজয়

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

নির্বাচনি সহিংসতায় প্রাণ গেলো এসএসসি পরীক্ষার্থীর

নির্বাচনি সহিংসতায় প্রাণ গেলো এসএসসি পরীক্ষার্থীর

টুকুপুত্রের বিশাল জয়ে জামানত হারালেন সব প্রার্থী

টুকুপুত্রের বিশাল জয়ে জামানত হারালেন সব প্রার্থী

বগুড়ার ৮ ইউনিয়নের ছয়টিতে নৌকার পরাজয়

বগুড়ার ৮ ইউনিয়নের ছয়টিতে নৌকার পরাজয়

ট্রেনে কাটা পড়ে প্রাণ গেলো ব্যাংক কর্মীর

ট্রেনে কাটা পড়ে প্রাণ গেলো ব্যাংক কর্মীর

পুলিশে চাকরি দেওয়ার কথা বলে টাকা নেওয়ায় গ্রেফতার ১

পুলিশে চাকরি দেওয়ার কথা বলে টাকা নেওয়ায় গ্রেফতার ১

পাবনায় ২৬ ইউপি’র ১৯টিতে নৌকা জয়ী

পাবনায় ২৬ ইউপি’র ১৯টিতে নৌকা জয়ী

নওগাঁয় ২২ ইউপির মাত্র সাতটি নৌকার

নওগাঁয় ২২ ইউপির মাত্র সাতটি নৌকার

চাচার চেয়ে ৭ গুণ বেশি ভোট পেয়ে মেয়র হলেন টুকুপুত্র

চাচার চেয়ে ৭ গুণ বেশি ভোট পেয়ে মেয়র হলেন টুকুপুত্র

৬ বছর ছিলেন পলাতক, বিয়ের পরদিন গ্রেফতার

৬ বছর ছিলেন পলাতক, বিয়ের পরদিন গ্রেফতার

সর্বশেষ

সাধারণ ক্ষমাপ্রাপ্তদের উদ্দেশে বঙ্গবন্ধু

সাধারণ ক্ষমাপ্রাপ্তদের উদ্দেশে বঙ্গবন্ধু

টুইটারের প্রধান নির্বাহী জ্যাক ডরসির পদত্যাগ

টুইটারের প্রধান নির্বাহী জ্যাক ডরসির পদত্যাগ

কুমিল্লায় কাউন্সিলর হত্যা: দুই আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

কুমিল্লায় কাউন্সিলর হত্যা: দুই আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

সরাসরি ভোটের ইউপিতে আ.লীগের চেয়ে এগিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থীরা

সরাসরি ভোটের ইউপিতে আ.লীগের চেয়ে এগিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থীরা

নিহত শিক্ষার্থী মাইনুদ্দীনের ফেসবুক স্ট্যাটাসে যা ছিল

নিহত শিক্ষার্থী মাইনুদ্দীনের ফেসবুক স্ট্যাটাসে যা ছিল

© 2021 Bangla Tribune