X

সেকশনস

বিরসা মুন্ডার ‘মূর্তি’ নিয়ে পশ্চিমবঙ্গে বিতর্ক

আপডেট : ২২ নভেম্বর ২০২০, ২১:৪৮

ভারতের আদিবাসী কৃষক বিদ্রোহের নেতা বিরসা মুন্ডার মূর্তি নিয়ে পশ্চিমবঙ্গে বিতর্ক শুরু হয়েছে। নভেম্বরের প্রথম সপ্তাহে পশ্চিমবঙ্গ সফরে ভারতীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ বিরসার মূর্তিতে মাল্যদান করে শ্রদ্ধা জানানোর খবর প্রচারিত হওয়ার পরই বিতর্কের শুরু হয়েছে। জার্মান সংবাদমাধ্যম ডয়চে ভেলে এখবর জানিয়েছে।

বিরসা মুন্ডা ছিলেন ভারতের রাঁচি অঞ্চলের একজন মুন্ডা আদিবাসী। ১৮৯৯-১৯০০ সালে তাঁর নেতৃত্বে আদিবাসী কৃষক বিদ্রোহ শুরু হয়েছিল।

পশ্চিমবঙ্গের ক্ষমতাসীন তৃণমূল কংগ্রেসের দাবি, মূর্তিটি আদিবাসী নেতা বিরসা মুন্ডার নয়। এটি আদিবাসী এক শিকারীর মূর্তি। এই মূর্তির নিচে একটি ছবি রেখে মালা দেন শাহ। এতে তিনি আদিবাসীদের নেতাকে অপমানিত করেছেন।

এই মাল্যদান পর্ব ঘিরে ব্যাপক বিতর্ক চলছে পশ্চিমবঙ্গের রাজনীতিতে। তৃণমূলের বাঁকুড়া জেলা সভাপতি ও রাজ্যের মন্ত্রী শ্যামল সাঁতরা অমিত শাহের সমালোচনা করেছেন। তিনি বলেন, যে মূর্তি বিরসা মুন্ডার নয়, তাতে মালা দিয়ে আদিবাসী নেতাকে শ্রদ্ধা জানিয়ে তিনি গোটা সমাজকে খাটো করেছেন। এজন্য ক্ষমা চাইতে হবে তাকে।

শ্যামল সাঁতরার উদ্যোগে এখন চলছে ৫০ হাজার পোস্টকার্ড লেখার কাজ। আদিবাসী সমাজের মানুষ শাহের ঠিকানায় এই পোস্টকার্ড পাঠাচ্ছেন। তাতে মাল্যদান পর্ব নিয়ে আপত্তি জানিয়ে বিজেপি নেতার কাছে ক্ষমা চাওয়ার দাবি তোলা হয়েছে।

তৃণমূল নেতা, বিধায়ক শান্তিরাম মাহাতো বলেন, বিরসা মুন্ডা সাঁওতালদের কাছে ভগবানের মতো। তাকে নিয়ে নোংরা রাজনীতি চলছে। এটি খুবই দুর্ভাগ্যজনক।

তৃণমূল সংসদ সদস্য অভিনেত্রী নুসরত জাহান আক্রমণ করেছেন বিজেপি নেতাকে। তার বক্তব্য, বাংলার সংস্কৃতি সম্পর্কে ধারণা নেই বিজেপি নেতার।

তৃণমূল বরাবরই বিজেপিকে ‘অবাঙালিদের দল’ বলে কটাক্ষ করে। নরেন্দ্র মোদি, অমিত শাহসহ শীর্ষ বিজেপি নেতৃত্বকে ‘বহিরাগত’ বলে আক্রমণ করে আসছে। সেই প্রচারকে বিধানসভা নির্বাচনের আগে ফের তুঙ্গে নিয়ে যেতে চাইছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দল।

বিজেপি এই ঘটনায় অস্বস্তিতে পড়লেও পরিস্থিতি সামাল দিতে পালটা তীর ছুঁড়ছে। তাদের বক্তব্য,  বিরসা মুন্ডার মূর্তিতেই মালা দিয়েছেন শাহ। তৃণমূল অকারণে জলঘোলা করার চেষ্টা করছে। লোকসভা ভোটে হারানো জমি ফিরে পেতে এই কৌশল নিয়েছে রাজ্যের শাসক দল।

বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ একধাপ এগিয়ে বলেছেন, বিরসা মুন্ডার কোনও ছবি পাওয়া যায় না। অমিত শাহ যখন বিরসা মুন্ডা মনে করে ওই মূর্তিতে মালা দিয়েছেন তখন ওটাই তার মূর্তি।

এই ঘটনা নিয়ে রাজনৈতিক বিশ্লেষক অধ্যাপক বিমলশঙ্কর নন্দ বলেন,  এটি তৈরি করা বিতর্ক। দুর্নীতি থেকে গণতন্ত্রের হত্যার মতো অনেক বিষয় গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠছে। আদিবাসী সমাজের মধ্যে সংঘ পরিবার যে প্রভাব তৈরি করেছে, তা এ ধরনের ছোটখাটো বিতর্কে ধসে পড়বে না।

অধ্যাপক বিমলশঙ্কর নন্দ আরও বলেন, আদিবাসী নেতার জীবদ্দশায় ছবি তোলার প্রচলন ছিল না। অতীতের মূর্তি দেখে এখন তা কল্পনা করা হয়। কোনও একটি মূর্তি তার মতোই হয়েছে কি না, এই প্রশ্ন তোলা নিরর্থক।

এই যুক্তির সঙ্গে একমত নন পুরুলিয়ার কংগ্রেস নেতা ও  বিধায়ক সুদীপ মুখোপাধ্যায়। তিনি বলেন, আমরা ছোটবেলা থেকে পাঠ্যপুস্তকে বিরসা মুন্ডার ছবি দেখে আসছি। সেটাকেই তার প্রতিকৃতি বলে ধরতে হবে। এটি নিয়ে রাজনৈতিক টানাপড়েন মোটেই কাম্য নয়।

/এএ/

সম্পর্কিত

বাইডেনের শপথের দুই ঘণ্টা আগে সুপ্রিম কোর্টে বোমা হামলার হুমকি

বাইডেনের শপথের দুই ঘণ্টা আগে সুপ্রিম কোর্টে বোমা হামলার হুমকি

ক্যাপিটলে পৌঁছেছেন বাইডেন, প্রস্তুত মঞ্চ

ক্যাপিটলে পৌঁছেছেন বাইডেন, প্রস্তুত মঞ্চ

বাইডেনের অভিষেকে জনতার বদলে থাকছে পতাকার সমুদ্র

বাইডেনের অভিষেকে জনতার বদলে থাকছে পতাকার সমুদ্র

ট্রাম্প সমর্থকদের সমাবেশ প্রত্যাহার

ট্রাম্প সমর্থকদের সমাবেশ প্রত্যাহার

অনলাইন বৈঠকে যতটা সম্ভব ক্যামেরা বন্ধ রাখার পরামর্শ বিজ্ঞানীদের

অনলাইন বৈঠকে যতটা সম্ভব ক্যামেরা বন্ধ রাখার পরামর্শ বিজ্ঞানীদের

বাইডেনের জন্য চিঠি রেখে গেছেন ট্রাম্প

বাইডেনের জন্য চিঠি রেখে গেছেন ট্রাম্প

লড়াই চালিয়ে যাবো: শেষ ভাষণে ট্রাম্প

লড়াই চালিয়ে যাবো: শেষ ভাষণে ট্রাম্প

হোয়াইট হাউজ ছাড়লেন ডোনাল্ড ট্রাম্প

হোয়াইট হাউজ ছাড়লেন ডোনাল্ড ট্রাম্প

আমিরাত-ভারত যাত্রায় খরচ হবে মাত্র ৭ হাজার টাকা

আমিরাত-ভারত যাত্রায় খরচ হবে মাত্র ৭ হাজার টাকা

শুরুর দিনগুলোতে কোন ইস্যুকে অগ্রাধিকার দেবেন প্রেসিডেন্ট বাইডেন?

শুরুর দিনগুলোতে কোন ইস্যুকে অগ্রাধিকার দেবেন প্রেসিডেন্ট বাইডেন?

আরও ৬০টি দেশে মিলেছে যুক্তরাজ্যের নতুন বৈশিষ্ট্যের করোনা: ডব্লিউএইচও

আরও ৬০টি দেশে মিলেছে যুক্তরাজ্যের নতুন বৈশিষ্ট্যের করোনা: ডব্লিউএইচও

সর্বশেষ

কর্মীকে ধর্ষণ: সুইফট ডেভেলপমেন্ট কোম্পানির পরিচালক কারাগারে

কর্মীকে ধর্ষণ: সুইফট ডেভেলপমেন্ট কোম্পানির পরিচালক কারাগারে

প্রত্যেককে ডিজিটাল দক্ষতা অর্জন করতে হবে: মোস্তাফা জব্বার

প্রত্যেককে ডিজিটাল দক্ষতা অর্জন করতে হবে: মোস্তাফা জব্বার

উন্নত নগরী গড়ে তোলার ঘোষণা রেজাউলের

উন্নত নগরী গড়ে তোলার ঘোষণা রেজাউলের

তামিমের নেতৃত্বের প্রশ্নে যা বললেন সাকিব

তামিমের নেতৃত্বের প্রশ্নে যা বললেন সাকিব

যুবলীগ চেয়ারম্যান শেখ পরশ করোনায় আক্রান্ত

যুবলীগ চেয়ারম্যান শেখ পরশ করোনায় আক্রান্ত

‘বাজেট নেই মেঝে উঁচু করার, তাই করিনি’

‘বাজেট নেই মেঝে উঁচু করার, তাই করিনি’

বাইডেনের শপথের দুই ঘণ্টা আগে সুপ্রিম কোর্টে বোমা হামলার হুমকি

বাইডেনের শপথের দুই ঘণ্টা আগে সুপ্রিম কোর্টে বোমা হামলার হুমকি

ভাইয়ের কিল-ঘুষিতে বোনের মৃত্যুর অভিযোগ

ভাইয়ের কিল-ঘুষিতে বোনের মৃত্যুর অভিযোগ

ক্যাপিটলে পৌঁছেছেন বাইডেন, প্রস্তুত মঞ্চ

ক্যাপিটলে পৌঁছেছেন বাইডেন, প্রস্তুত মঞ্চ

এলডিসি থেকে উত্তরণের ফলে অগ্রাধিকার বাজার সুবিধা সংকুচিত হবে: সিপিডি

এলডিসি থেকে উত্তরণের ফলে অগ্রাধিকার বাজার সুবিধা সংকুচিত হবে: সিপিডি

যে সাত কোটি মানুষ করোনা টিকার বাইরে

যে সাত কোটি মানুষ করোনা টিকার বাইরে

শাবির ফুড ইঞ্জিনিয়ারিং সোসাইটির নতুন কমিটি গঠন

শাবির ফুড ইঞ্জিনিয়ারিং সোসাইটির নতুন কমিটি গঠন

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

বাইডেনের শপথের দুই ঘণ্টা আগে সুপ্রিম কোর্টে বোমা হামলার হুমকি

বাইডেনের শপথের দুই ঘণ্টা আগে সুপ্রিম কোর্টে বোমা হামলার হুমকি

ক্যাপিটলে পৌঁছেছেন বাইডেন, প্রস্তুত মঞ্চ

ক্যাপিটলে পৌঁছেছেন বাইডেন, প্রস্তুত মঞ্চ

বাইডেনের অভিষেকে জনতার বদলে থাকছে পতাকার সমুদ্র

বাইডেনের অভিষেকে জনতার বদলে থাকছে পতাকার সমুদ্র

ট্রাম্প সমর্থকদের সমাবেশ প্রত্যাহার

ট্রাম্প সমর্থকদের সমাবেশ প্রত্যাহার

অনলাইন বৈঠকে যতটা সম্ভব ক্যামেরা বন্ধ রাখার পরামর্শ বিজ্ঞানীদের

অনলাইন বৈঠকে যতটা সম্ভব ক্যামেরা বন্ধ রাখার পরামর্শ বিজ্ঞানীদের

বাইডেনের জন্য চিঠি রেখে গেছেন ট্রাম্প

বাইডেনের জন্য চিঠি রেখে গেছেন ট্রাম্প

লড়াই চালিয়ে যাবো: শেষ ভাষণে ট্রাম্প

লড়াই চালিয়ে যাবো: শেষ ভাষণে ট্রাম্প

হোয়াইট হাউজ ছাড়লেন ডোনাল্ড ট্রাম্প

হোয়াইট হাউজ ছাড়লেন ডোনাল্ড ট্রাম্প

আমিরাত-ভারত যাত্রায় খরচ হবে মাত্র ৭ হাজার টাকা

আমিরাত-ভারত যাত্রায় খরচ হবে মাত্র ৭ হাজার টাকা


[email protected]
© 2021 Bangla Tribune
Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.