X
মঙ্গলবার, ০৫ জুলাই ২০২২
২১ আষাঢ় ১৪২৯

সুজনের এত দাদাগিরি কেন, প্রশ্ন তথ্যমন্ত্রীর

আপডেট : ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২, ২১:৫৬

সার্চ কমিটি যে ১০ জন সিলেক্ট করবে, আইন অনুযায়ী এটি তাদের ক্ষমতা বলে জানিয়েছেন তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। তিনি বলেছেন, ‘ওই ১০ জনের নাম প্রকাশ করবে কী করবে না, এটি একান্ত সার্চ কমিটির বিষয়। সেটির জন্য সুজন (সুশাসনের জন্য নাগরিক) বলার কে? সুজন কি নির্বাচন করে? নির্বাচনের ক্ষেত্রে সুজন কি এখানে স্টেকহোল্ডার? তা তো নয়। এখানে যারা নির্বাচন করে তারাই স্টেকহোল্ডার। সুজনের এত দাদাগিরি কেন, সেটিই আমার বড় প্রশ্ন।’

শুক্রবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) বেলা ১১টায় চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এসব কথা বলেন। এ সময় চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম এ সালাম, চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিন উপস্থিত ছিলেন।

নির্বাচন কমিশন গঠনের লক্ষ্যে সার্চ কমিটির সুপারিশ করা ১০ জনের নাম প্রকাশের জন্য বেসরকারি সংস্থা সুজনের দাবির বিষয়ে হাছান মাহমুদ বলেন, ‘সুজন এরা কারা? সুজন একটি এনজিও, এই এনজিওর সারা দেশে শাখা-প্রশাখাও নেই। এরা ব্যক্তিবিশেষ নিয়ে একটা এনজিও। বিভিন্ন সংস্থা থেকে তারা তহবিল সংগ্রহ করে চলে, এমনকি নির্বাচন কমিশনের কাছ থেকেও তারা একসময় তহবিল নিয়েছিল। যেটি নিয়ে প্রশ্ন রেখেছেন সাবেক প্রধান নির্বাচন কমিশনার। সুজন যেভাবে পরামর্শ দিচ্ছে, আর গণমাধ্যমেও কেন এটিকে ফলাও করে প্রকাশ করা হয়, সেটিও আমার প্রশ্ন।’

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাছান মাহমুদ বলেন, ‘বিএনপি নয়া পল্টনের অফিসে ১২ বছর আগে থেকে আমাদের সরকারের বিদায় ঘণ্টা বাজাচ্ছে। আরও কয় বছর বাজাতে হয় সেটা জনগণ ঠিক করবে। তারা বিদায় ঘণ্টা বাজানো সত্ত্বেও জনগণ গত দুই নির্বাচনে আমাদের নির্বাচিত করে দেশ পরিচালনার দায়িত্ব দিয়েছে। আমরা দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি, বঙ্গবন্ধু কন্যার নেতৃত্বে দেশে যে অভাবনীয় উন্নয়ন হয়েছে, আগামী নির্বাচনেও জনগণ নৌকায় ভোট দিয়ে শেখ হাসিনাকে দেশ পরিচালনার দায়িত্ব দেবে।’

তিনি বলেন, ‘ষাটোর্ধ্বদের জন্য পেনশন স্কিম প্রধানমন্ত্রীর একান্তই নিজস্ব চিন্তার ফসল। এটির জন্য বিএনপিসহ কোনও রাজনৈতিক দল কখনও দাবি করেনি। সুশীল সমাজ, রাত ১২টার পর যারা টেলিভিশনের পর্দা গরম করেন কিংবা যারা সময়ে-অসময়ে, কারণে-অকারণে জাতিকে জ্ঞান দেওয়ার চেষ্টা করেন, তারাও বলেনি।’

তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘যেই স্বচ্ছতার ভিত্তিতে এবং যেভাবে অংশগ্রহণমূলকভাবে এবার নির্বাচন কমিশন গঠন করার উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে, আইন অনুযায়ী সেটি অভাবনীয়। ৭৫ বছরের গণতন্ত্রের দেশ ভারতসহ কয়েকশ’ বছরের পুরনো গণতন্ত্রের দেশেও এভাবে করা হয় না। এখানে সবার সঙ্গে বসা হয়েছে। যে নামগুলো জমা পড়েছে সেগুলো প্রকাশ করা হয়েছে।’

নির্বাচনকালীন সরকার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘সংবিধান অনুযায়ী অবশ্যই একটি নির্বাচনকালীন সরকার থাকবে। বর্তমান সরকার গত নির্বাচনে নির্বাচিত হয়েছিল, সেই সরকারই নির্বাচনকালীন সরকার হিসেবে সংবিধান অনুযায়ী দায়িত্ব পালন করবে। নির্বাচন কখনও সরকারের অধীনে হয় না, হয় কমিশনের অধীনে। নির্বাচনকালে কোনও মন্ত্রী, এমনকি প্রধানমন্ত্রীরও একজন কনস্টেবল বদলি করারও ক্ষমতা থাকে না। তখন সরকার শুধু রুটিন কাজ করতে পারে। সুতরাং বিএনপি যে ধোঁয়া তুলছে নির্বাচনকালে সবাইকে নিয়ে একটি সরকার গঠন করার, সংবিধান অনুযায়ী সেটি করার কোনও সুযোগ নেই।’

বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, ‘আওয়ামী লীগ সরকার এখন সারা বিশ্ব থেকে বিচ্ছিন্ন। তাদের বিদায় ঘণ্টা বাজা শুরু হয়েছে।’ এর পরিপ্রেক্ষিতে তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘ওনারা স্বপ্ন দেখেন ষড়যন্ত্রের। কোনও জায়গা থেকে একটা চিঠি আনলে ওনারা পুলকিত হন। কোনও জায়গা থেকে খালেদা জিয়ার জন্য একটা চিঠি এলে, কাউকে ধরে একটা বিবৃতি আদায় করতে পারলে ওনারা পুলকিত হন। রিজভী সাহেবরা যেই ঘণ্টা বাজাচ্ছেন, সেই ঘণ্টা ওনারা বাজাতে থাকুক, জনগণ আমাদের সঙ্গেই আছে।’

/এফআর/এমওএফ/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
৪ মন্দিরের প্রতিমা ভাঙচুর, যুবক আটক
৪ মন্দিরের প্রতিমা ভাঙচুর, যুবক আটক
ঢাবিতে চান্স পাননি ৫৫ বছরের বেলায়েত, চেষ্টা চালাবেন অন্য বিশ্ববিদ্যালয়ে
ঢাবিতে চান্স পাননি ৫৫ বছরের বেলায়েত, চেষ্টা চালাবেন অন্য বিশ্ববিদ্যালয়ে
কী আছে হোয়াটসঅ্যাপের নতুন ফিচারে
কী আছে হোয়াটসঅ্যাপের নতুন ফিচারে
মহাগুরুকে নিয়ে মহাস্বপ্ন দেখছে পশ্চিমবঙ্গ বিজেপি
মহাগুরুকে নিয়ে মহাস্বপ্ন দেখছে পশ্চিমবঙ্গ বিজেপি
এ বিভাগের সর্বশেষ
ডিপোতে আগুন: তদন্ত শেষ করতে পারেনি ৬ কমিটির পাঁচটি
ডিপোতে আগুন: তদন্ত শেষ করতে পারেনি ৬ কমিটির পাঁচটি
চট্টগ্রাম সিটির বর্জ্য অপসারণ করবে ৫ হাজার শ্রমিক 
চট্টগ্রাম সিটির বর্জ্য অপসারণ করবে ৫ হাজার শ্রমিক 
পশুর অবৈধ হাট বসানোয় ৪০ হাজার টাকা জরিমানা
পশুর অবৈধ হাট বসানোয় ৪০ হাজার টাকা জরিমানা
র‍্যাবের সঙ্গে মাদক ব্যবসায়ীদের সংঘর্ষে আহত ৩
র‍্যাবের সঙ্গে মাদক ব্যবসায়ীদের সংঘর্ষে আহত ৩
নারীকে তুলে নিয়ে ক্লাবে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ, প্রতিবাদে ঝাড়ু মিছিল
নারীকে তুলে নিয়ে ক্লাবে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ, প্রতিবাদে ঝাড়ু মিছিল