খাসিয়ারা পাহাড়ের পরিবেশ রক্ষা করছে: সুলতানা কামাল

Send
মৌলভীবাজার প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ০৭:১৬, ডিসেম্বর ১২, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ০৭:২০, ডিসেম্বর ১২, ২০১৯

সুলতানা কামালক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী খাসিয়াদের অধিকারের পক্ষে দাঁড়িয়েছেন তত্ত্ববধায়ক সরকারের সাবেক উপদেষ্টা ও বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা) এর সভাপতি মানবাধিকারকর্মী অ্যাডভোকেট সুলতানা কামাল। তিনি বলেন, ‘দীর্ঘদিন ধরে খাসিয়ারা পাহাড়ে শান্তিপূর্ণভাবে বসবাস করে আসছে। তারা পাহাড়ের পরিবেশ রক্ষা করছে। ঝিমাই চা-বাগান মালিক খাসিয়াদের যাতায়াতের রাস্তা ব্যবহারে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি ও উচ্ছেদের যে পায়তারা করছে, তা মানবাধিকার লঙ্ঘনের শামিল। শতশত বছর ধরে বসবাস করা খাসিয়াদের বাসস্থান ও চলাফেরার স্বাধীনতা ঐতিহ্যগত অধিকার।’

বুধবার (১১ ডিসেম্বর) বিকালে মৌলভীবাজারের কুলাউড়া উপজেলার ঝিমাই পুঞ্জিতে এক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। ঝিমাই পুঞ্জির ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী খাসিদের ভূমি অধিকার, নিরাপত্তা পরিস্থিতি ও যাতায়াত সমস্যা পর্যবেক্ষণ করেন সুলতানা কামাল।

তিনি বলেন, ‘মানুষের চলাচলের পথ কেউ বন্ধ করতে পারে না। সেই পথ যদি কারও মালিকানাও থাকে তবুও বাঁধা দেওয়ার অধিকার থাকে না। রাস্তায় চলাচল জনগণের মৌলিক অধিকার। এই অধিকারে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করার কোনও ক্ষমতা কারও নেই।’

বাংলাদেশ আদিবাসী ফোরাম, আইপিডিএস, কুবরাজ আন্তঃপুঞ্জি উন্নয়ন সংগঠন, বাপা, বেলা, বল্টাস্ট, নিজেরা করি ও এএলআরডি-র যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন ঝিমাই পুঞ্জির মন্ত্রী রানা সুরং।

আন্তঃপুঞ্জি উন্নয়ন সংগঠনের (কুবরাজ) সাধারণ সম্পাদক ফ্লোরা বাবলী তালাং এর সঞ্চালনায় বিশেষ আরও বক্তব্য রাখেন—বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগের সাবেক বিচারপতি (অব.) মো. নিজামুল হক, এএলআরডি’র নির্বাহী পরিচালক শামসুল হুদা, শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক জহুরুল হক শাকিল, সিলেট খ্রিস্ট্রীয় ধর্মপ্রদেশ বিশপ বিজয় এনডি ক্রুজ, এএলআরডি’র উপ-নির্বাহী পরিচালক রওশন জাহান মনি, বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন সিলেট জেলার সাধারণ সম্পাদক আব্দুল করিম কিম, ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী নেত্রী কুইনস বন সুরাং প্রমুখ।

 

 

/আইএ/

লাইভ

টপ