করোনা থেকে শিশু সুরক্ষায় ৭ দফা সুপারিশ খুলনা জোটের

Send
খুলনা প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ২০:১৬, মার্চ ২৬, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২০:১৬, মার্চ ২৬, ২০২০

খুলনাকরোনা ভাইরাস সংক্রমণ থেকে শিশুদের সুরক্ষার আহ্বান জানিয়েছে শিশু সুরক্ষা জোট, খুলনা। জোটের পক্ষ থেকে বিভাগীয় কমিশনারের কাছে একটি স্মারক লিপি দেওয়া হয়েছে; যাতে সাত দফা সুপারিশ করা হয়েছে।

সম্প্রতি দেওয়া এ স্মারকলিপিতে বলা হয়েছে, খবর অনুসারে দেশে করোনায় আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত মারা গেছে ৫ জন, আক্রান্তের সংখ্যা ৪৪ জন। প্রশাসন ইতোমধ্যে ২৬ মার্চ থেকে ৪ এপ্রিল পর্যন্ত সাধারণ ছুটি ঘোষণা করেছে। সরকারের পাশাপাশি বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থাগুলোও করোনা নিয়ন্ত্রণে কাজ করে যাচ্ছে। ৬০ মিলিয়নেরও বেশি শিশু বাংলাদেশে বাস করছে। এর মধ্যে ১০ ভাগ বাস করে খুলনাতে।

এতে বলা হয়, যেকোনও ধরনের দুর্যোগ বা মহামারিতে সবচেয়ে বেশি ঝুঁকির মধ্যে পড়ে শিশুরা। বিশ্বব্যাপী করোনা ভাইরাস মহামারি আকার ধারণ করেছে। শিশুরা এর ভয়বহতা থেকে রেহাই পাচ্ছে না।

বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন, শিশুরা যেহেতু দীর্ঘ সময় বাড়িতে থাকবে, এতে তাদের ওপর শারীরিক, মানসিক ও যৌন নির্যাতন বেড়ে যেতে পারে। সব বিধি-নিষেধ মেনে চলার পাশাপশি শিশুদের যাতে সব ধরনের সহিংসতা থেকে মুক্ত রাখা যায়, সেজন্য শিশু সুরক্ষা জোট, খুলনা আহ্বান জানিয়েছে। এ লক্ষে জোটের উদ্যোগে খুলনা বিভাগীয় কমিশনারের কাছে ৭ দফা সুপারিশ করা হয়েছে।

সুপারিশগুলো হচ্ছে—করোনা নিয়ন্ত্রণে যেসব উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে সেগুলোতে শিশুদের সর্বোচ্চ স্বার্থ ও সুরক্ষা বিবেচনা এবং শিশুবান্ধব করতে নজর রাখা। করোনা থেকে বাঁচার জন্য এলাকায় সচেতনতা বৃদ্ধিতে বিভিন্ন ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান থেকে মাইকের মাধ্যমে সচেতনতামূলক বার্ত প্রচার করা। সব ধরনের পরিকল্পনার ক্ষেত্রে জেন্ডার বিবেচনায় আনা। ছেলে ও মেয়ে শিশুর জন্য হাসপাতালগুলোতে আলাদাভাবে স্বাস্থ্যসেবার ব্যবস্থা করা। শিশুদের জন্য মানসিক স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করা। বিশেষ করে শিক্ষকদের নজরদারিতে রাখা। এই সংকটে খাদ্যাভাবে থাকা পরিবার বাছাই এবং তাদের জন্য খাবারের ব্যবস্থা করা। খুলনা বেতারের মাধ্যমে সচেতনতামূলক বার্তা বা তথ্য প্রচার করা। একইসঙ্গে পথশিশু, এতিম শিশু, প্রতিবন্ধী শিশু ও শ্রমজীবী শিশুদের কথা বিবেচনায় রাখা।

জোটের সদস্য সংস্থারগুলো হলো—ইউনিসেফ, উইনরক ইন্টারন্যাশনাল, ওয়ার্ল্ড ভিশন বাংলাদেশ, পরিবর্তন-খুলনা, মাসাস, সি এস এস, প্রোসেস, কারিতাস, রূপসা, জে জে এস, ধ্রুব, নাগরিক ফোরাম, লাইট বাংলাদেশ, শেয়ার বাংলাদেশ, মানবাধিকার বাস্তবায়ন সংস্থা, ইউসেপ বাংলাদেশ, সুশীলন, ব্লাস্ট খুলনা ইউনিট, ফেয়ার ও লোকোজ।

 

 

/আইএ/

লাইভ

টপ