দুর্ঘটনা কবলিত ব্যবসায়ী ফেরত পেলেন খোয়া যাওয়া টাকা

Send
বরিশাল প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ০১:২৪, অক্টোবর ৩০, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০১:২৯, অক্টোবর ৩০, ২০২০

হারানো টাকা খুঁজে ফেরত দেওয়া হলো দুর্ঘটনা কবলিত পরিবারের সদস্যদের।

বরিশালে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হয়ে পা কেটে ফেলতে বাধ্য হওয়া পেঁয়াজ ব্যবসায়ীর হারিয়ে যাওয়া ৫০ হাজার টাকা উদ্ধার হয়েছে। পুলিশ এ টাকা উদ্ধার করে তার হাতে ফেরত দিয়েছে। আহত ওই ব্যবসায়ীর নাম নয়া মাতব্বর। ওই দুর্ঘটনায় নয়া মাতব্বরের একটি পা কেটে ফেলা হয়। বর্তমানে তিনি ঢাকার পঙ্গু হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

নয়া মাতব্বর ফরিদপুরের নগরকান্দা উপজেলার ব্যাতাল গ্রামের সিরাজ মাতব্বরের ছেলে। বুধবার বিকেলে ওই টাকা উদ্ধার করে রাতে আহত ব্যবসায়ীর পিতার হাতে তুলে দেওয়া হয়।

গৌরনদী হাইওয়ে থানার ওসি মনিরুল ইসলাম ভূঁইয়া বলেন, দুর্ঘটনার ৩ থেকে ৪দিন পর আহত ব্যবসায়ীর পিতা সিরাজ মাতব্বর দাবি করেন, তার ছেলের কাছে থাকা ৫০ হাজার টাকা কে বা কারা নিয়ে যায়। তাৎক্ষণিক আমি গৌরনদী হাইওয়ে থানা পুলিশ সদস্যদের নিয়ে খোয়া যাওয়া টাকা উদ্ধারে তৎপর হই। প্রায় দুই সপ্তাহ চেষ্টা চালিয়ে টাকা লুকিয়ে ফেলা দুইজনকে শনাক্ত করি। এক পর্যায়ে তারা আত্মসাৎকৃত টাকা ফেরত দিয়ে নাম প্রকাশ না করতে অনুরোধ করেন। তাদের ভুল বুঝতে পারে এবং এমন কাজ আর কখনো করবে না বলে অঙ্গীকার করায় তাদের ছেড়ে দেওয়া হয়।

এরপর বুধবার রাতে সিরাজ মাতব্বরের হাতে পুরো টাকা বুঝিয়ে দেওয়া হয়। এ সময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন পুলিশ সার্জন মাহাবুব আলমসহ থানার পুলিশ সদস্যরা।

সিরাজ মাতব্বর জানান, গত ১০ অক্টোবর বরিশাল শহরে পেঁয়াজ বিক্রি করে পিকআপযোগে বাড়ি ফিরছিল নয়া। গৌরনদীর আশোকাঠী নামক স্থানে পৌঁছলে সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হয় তার ছেলে নয়া, চালক ও হেলপার। স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে গৌরনদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

এ সময় তার ছেলের কাছে থাকা ৫০ হাজার টাকা উদ্ধারকারীদের মধ্যে কে বা কারা নিয়ে যায়। পরবর্তীকে তার ছেলে নয়াকে ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখানে অপারেশন করে নয় একটি পা কেটে ফেলতে হয়। বর্তমানে ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে নয়া।

তিনি আরও জানান, ফিরে পাওয়া ৫০ হাজার টাকা তার ছেলের চিকিৎসায় অনেক উপকারে আসবে।

/টিএন/

লাইভ

টপ