X
সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
১৩ ফাল্গুন ১৪৩০

গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ, শাশুড়ি আটক

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি
১৮ নভেম্বর ২০২৩, ২২:০১আপডেট : ১৮ নভেম্বর ২০২৩, ২২:৪০

কুড়িগ্রামের রাজিবপুরে তাসলিমা নামে এক গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে শাশুড়ি ও দেবরের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত শাশুড়িকে আটক করেছে পুলিশ। শনিবার (১৮ নভেম্বর) সকালে উপজেলার সদর ইউনিয়নের বদরপুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

রাজিবপুর থানার ইন্সপেক্টর (তদন্ত) আতাউর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

নিহত তাসলিমা জামালপুর জেলার দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার মৌলভীরচর এলাকার মৃত সালামের মেয়ে। ১০ বছর আগে বদরপুরের রহিজল হকের ছেলে মুকুল হোসেনের সঙ্গে পারিবারিকভাবে তার বিয়ে হয়।

তাসলিমার স্বামী কাজের সূত্রে এলাকার বাইরে থাকায় শ্বশুর রহিজল (৪৮), শাশুড়ি সালেহা খাতুন (৪০)  ও দেবর সানোয়ার (২১) মিলে নানা অজুহাতে প্রায়ই তাকে নির্যাতন করতো বলে অভিযোগ প্রতিবেশী ও নিহতের স্বজনদের।

ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী প্রতিবেশী মরিয়ম আক্তার বলেন, ‘শনিবার সকালে তাসলিমা টয়লেটের দরজার সামনে দাঁড়িয়েছিল। তার দেবর সানোয়ার টয়লেটে যাবে বলে তাকে সরে দাঁড়াতে বলে। তাসলিমার সরতে দেরি হওয়ায় দুজনের মধ্যে তর্ক হয়। এ সময় তার শাশুড়ি সালেহা গিয়ে তাকে লাথি ও কিলঘুষি মারতে থাকে। পরে তার শ্বশুর রহিজল তাকে আরও মারধর করতে বলে। শাশুড়ি ও দেবর মিলে তাকে এলোপাতাড়ি পেটায়। আমি বাঁচাতে এগিয়ে গেলে তারা চটে গিয়ে আমাকেও মারতে আসে। পরে চিৎকার করলে এলাকার মানুষ এগিয়ে আসে। এ সময় দেবর সানোয়ার পালিয়ে যায়। পরে তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাই।’

প্রতিবেশী লাল মিয়া ও আব্দুল লতিফ বলেন, ‘মেয়েটা অত্যন্ত ভালো ও সহজ-সরল ছিল। ওর স্বামী কৃষিকাজে যখনই ঢাকায় যায় তখনই মেয়েটার ওপর অত্যাচার-নির্যাতন করে তার শ্বশুর, শাশুড়ি ও দেবর। শনিবার সকালে সামান্য ঘটনায় এমনভাবে মেয়েটাকে মেরেছে যে মেয়েটা মরেই গেলো। আমরা এই হত্যাকারীদের সর্বোচ্চ শাস্তি দাবি করছি।’

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. সামিউল ইসলাম বলেন, ‘সকাল সাড়ে ১০টার দিকে তাকে মৃত অবস্থায় হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়।’

পুলিশ জানায়, গৃহবধূকে নির্যাতনে হত্যার অভিযোগে তার শ্বশুর, শাশুড়ি ও দেবরকে অভিযুক্ত করে মামলার প্রস্তুতি চলছে। ইতোমধ্যে অভিযুক্ত শাশুড়িকে আটক করা হয়েছে। শ্বশুর ও দেবর পলাতক রয়েছেন।

ইন্সপেক্টর আতাউর রহমান বলেন, ‘নিহত গৃহবধূর ছোট ভাই মাহমুদুল হাসান বাদী হয়ে মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছেন। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানোর ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।’

/কেএইচটি/
সম্পর্কিত
ভুট্টার আড়ালে নিষিদ্ধ পপি চাষ
কম্পিউটার প্রশিক্ষণকেন্দ্রের আড়ালে জালিয়াতি, প্রতারক কারাগারে
জমি নিয়ে বিরোধে যুবককে মারধরে হত্যার অভিযোগ
সর্বশেষ খবর
মুসলিমদের আবেদন খারিজ, জ্ঞানবাপী চত্বরে পূজার আদেশ এলাহাবাদ হাইকোর্টের
মুসলিমদের আবেদন খারিজ, জ্ঞানবাপী চত্বরে পূজার আদেশ এলাহাবাদ হাইকোর্টের
শবে বরাত উপলক্ষে হিলি স্থলবন্দরে আমদানি-রফতানি বন্ধ
শবে বরাত উপলক্ষে হিলি স্থলবন্দরে আমদানি-রফতানি বন্ধ
রাষ্ট্রপতির কাছে যে পরিকল্পনা তুলে ধরতে চায় দুদক
রাষ্ট্রপতির কাছে যে পরিকল্পনা তুলে ধরতে চায় দুদক
গাজায় ইসরায়েলি হামলার প্রতিবাদে নিজের শরীরে আগুন দিলেন এক মার্কিনী
গাজায় ইসরায়েলি হামলার প্রতিবাদে নিজের শরীরে আগুন দিলেন এক মার্কিনী
সর্বাধিক পঠিত
১০ রাষ্ট্রদূতকে ডেকে পাঠানোর সিদ্ধান্ত
১০ রাষ্ট্রদূতকে ডেকে পাঠানোর সিদ্ধান্ত
অভিযান চালিয়ে হাসপাতাল বন্ধে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ‘না’
অভিযান চালিয়ে হাসপাতাল বন্ধে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ‘না’
আইন অনুযায়ী ট্রান্সকমের মালিকদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে চায় পুলিশ
সম্পত্তি নিয়ে বিরোধআইন অনুযায়ী ট্রান্সকমের মালিকদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে চায় পুলিশ
গণিত পরীক্ষায় নিজ স্কুলের শিক্ষার্থীদের নকল সরবরাহ করায় শিক্ষক গ্রেফতার
গণিত পরীক্ষায় নিজ স্কুলের শিক্ষার্থীদের নকল সরবরাহ করায় শিক্ষক গ্রেফতার
‘শবে বরাত’ কী, এই রাতের কেন এত মর্যাদা?
‘শবে বরাত’ কী, এই রাতের কেন এত মর্যাদা?