X
বৃহস্পতিবার, ২৭ জানুয়ারি ২০২২, ১২ মাঘ ১৪২৮
সেকশনস

৬০ চলচ্চিত্র নিয়ে উত্তরায় আন্তর্জাতিক উৎসব

আপডেট : ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ২০:৫৮

শীতের আমেজের শুরুতেই ঢাকার উত্তরায় প্রথমবারের মতো শুরু হচ্ছে ইয়ুথ বাংলা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব। জাতির জনক  বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ও বিজয়ের সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে ১০-১৬ ডিসেম্বর সপ্তাহব্যাপী এ উৎসব হবে। 

টুগেদার উই অল, ডিভাইডেড উই ফল—এই স্লোগান নিয়ে উৎসবে দেশ-বিদেশের স্বনামধন্য নির্মাতাদের ৬০টি স্বল্পদৈর্ঘ্য ও পূর্ণদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র প্রদর্শিত হবে। ভেন্যু উত্তরার ইন্টারন্যাশনাল হোপ স্কুল থিয়েটার হল। যাতে রোজ বেলা ৩টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত বিনামূল্যে উপভোগ করতে পারবেন দর্শকরা।
  
৭ ডিসেম্বর গুলশানের বাংলাদেশ শুটিং স্পোর্ট ফেডারেশনে এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এসব তথ্য জানান আয়োজকরা। এতে উপস্থিত ছিলেন ইয়ুথ বাংলার প্রধান পৃষ্ঠপোষক সীমা হামিদ ও উৎসব পরিচালক নির্মাতা গাজী রাকায়েত। আরও উপস্থিত ছিলেন দিলারা জামান, শম্পা রেজা, আল মামুন, দেওয়ান হাবিব, শর্মিলী আহমেদ, শিমুল মুস্তফা, এস আই টুটুল, নিপুণ আক্তার, ফারজানা রওশন এবং ইয়ুথ বাংলা কালচারাল ফাউন্ডেশনের সভাপতি মুনা চৌধুরী।
    
সীমা হামিদ বলেন, ‘চলচ্চিত্র উৎসব যেকোনও দেশের চলচ্চিত্র ও সাংস্কৃতিক অঙ্গনে ইতিবাচক প্রভাব ফেলে। ভালো ছবি দেখার ব্যাপারে আমাদের সাধারণ মানুষের যথেষ্ট আগ্রহ আছে। ভালো ছবির চাহিদা থাকলেও তেমন জোগান আমাদের নেই। ভালো ছবির জোগান তৈরি করতে হবে।’
 
উৎসব পরিচালক নির্মাতা গাজী রাকায়েত বলেন, ‘আমাদের এই চলচ্চিত্র উৎসবের একটি প্রধান লক্ষ্য বহির্বিশ্বের সাথে আমাদের নতুন প্রজন্মের নির্মাতাদের যোগসূত্র তৈরি করে দেওয়া। সম্ভাবনাময় তরুণ নির্মাতাদের উৎসাহ দেওয়া।’ 

এবারের উৎসবে প্রতিযোগিতা বিভাগে সেরা চলচ্চিত্র নির্ধারণে রয়েছেন পাঁচ সদস্যবিশিষ্ট একটি স্বাধীন আন্তর্জাতিক জুরি বোর্ড। পূর্ণদৈর্ঘ্য ও স্বল্পদৈর্ঘ্য শাখায় শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্রের পাশাপাশি থাকছে শ্রেষ্ঠ পরিচালকের পুরস্কার। আরও থাকছে শ্রেষ্ঠ অভিনেতা-অভিনেত্রীর পুরস্কার। 

ইয়ুথ বাংলা কালচারাল ফাউন্ডেশনের সভাপতি মুনা চৌধুরী বলেন, ‘মুজিববর্ষ ও মহান বিজয়ের পঞ্চাশ বছর পূর্তিতে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়ন করে সুখী-সমৃদ্ধ অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ গড়তে চলচ্চিত্র শিল্পের বিকাশ জরুরি। ইয়ুথ বাংলা কালচারাল ফাউন্ডেশন বিশ্বাস করে, চলচ্চিত্রের মাধ্যমে সব মানবিক অনুভূতি উঠে আসে। বাংলাদেশের চলচ্চিত্র শিল্পের উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে এই উৎসব।’

/এমএম/এমওএফ/
সম্পর্কিত
সৃজিত-তাপসীর খুনসুটি: ডাব নে বানা দে জোড়ি!
সৃজিত-তাপসীর খুনসুটি: ডাব নে বানা দে জোড়ি!
ভেবেছিলাম আর কখনও ক্যামেরার সামনে আসবো না: পপি
ভেবেছিলাম আর কখনও ক্যামেরার সামনে আসবো না: পপি
কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেলের ইশতেহারে যা আছে
কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেলের ইশতেহারে যা আছে
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বাসায় কেন কাঞ্চন-নিপুণ!
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বাসায় কেন কাঞ্চন-নিপুণ!
সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
সৃজিত-তাপসীর খুনসুটি: ডাব নে বানা দে জোড়ি!
সৃজিত-তাপসীর খুনসুটি: ডাব নে বানা দে জোড়ি!
ভেবেছিলাম আর কখনও ক্যামেরার সামনে আসবো না: পপি
ভেবেছিলাম আর কখনও ক্যামেরার সামনে আসবো না: পপি
কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেলের ইশতেহারে যা আছে
চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতি নির্বাচন ২০২২কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেলের ইশতেহারে যা আছে
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বাসায় কেন কাঞ্চন-নিপুণ!
চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতি নির্বাচন ২০২২স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বাসায় কেন কাঞ্চন-নিপুণ!
সালমান ডাকলেন ‘দীপিকা রণবীর পাড়ুকোন সিং’!
সালমান ডাকলেন ‘দীপিকা রণবীর পাড়ুকোন সিং’!
© 2022 Bangla Tribune