X
শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪
১৬ ফাল্গুন ১৪৩০

ফারুকী-তিশার গল্পে নিজেকে খুঁজে পাওয়া...

বিনোদন রিপোর্ট
০১ ডিসেম্বর ২০২৩, ১৬:১১আপডেট : ০১ ডিসেম্বর ২০২৩, ২৩:০২

গল্পটা এমন, যেন গল্প নয়; সত্যিকারের সত্যি। এটা ঠিক মোস্তফা সরয়ার ফারুকী ও নুসরাত ইমরোজ তিশা নিজেদের বাবা-মা হওয়ার গল্পটাই বলতে চেয়েছেন। রেখে যেতে চেয়েছেন মেয়েকে সেটি জানাবার জন্য। তো সেটি করতে গিয়ে কিছু বিষয় যোগ করেছেন, আবার বিয়োগও করেছেন। তবে তারকা দম্পতি যে বার্তাটি দিতে চেয়েছেন নিজেদের অভিজ্ঞতার মধ্য দিয়ে, সেটুকু উঠে এসেছে বেশ নির্মোহভাবে। 

সেজন্যই ছবিটি যারা দেখছেন তারাই মিলিয়ে নিচ্ছেন নিজেদের খাতার সঙ্গে। দেখছেন, মিলছে তো। প্রায় হুবহু। বিশেষ করে যারা বাবা-মা হয়েছেন কিংবা নিজের বাবা-মাকে দেখার সুযোগ পেয়েছেন।

৩০ নভেম্বর রাতে ‘সামথিং লাইক এন অটোবায়োগ্রাফি’ নামের এই বিশেষ সিনেমাটি মুক্তি পেয়েছে ওটিটি প্ল্যাটফর্ম চরকিতে। একই সময়ে হয়েছে রাজধানীর এসকেএস টাওয়ারে তারকাখচিত প্রিমিয়ার। হাজির হয়েছেন ফারুকী-তিশা দম্পতির সংসারকেন্দ্রিক শিল্পী-কুশলী ও গণমাধ্যমকর্মীরা। 

ফারুকী-তিশাকে ঘিরে ভাই-বেরাদর সিনেমাটি দেখে চঞ্চল চৌধুরী বললেন, ‘আমাদেরও অনেক কষ্ট, অনেক বেদনা ও দুঃসময় যায়। যেটা আমরা প্রকাশ না করে হজম করি। হজম করে দর্শকদের সামনে হাসিমুখে বিনোদন বিলিয়ে বেড়াই। এই গল্পটা দেখতে দেখতে অনেকবার আমার চোখ ভিজে গেছে। মনে হয়েছে, এটা আমার নিজের গল্প। কারণ, এটা বিশ্বাস করার মতো সত্য গল্প। যেটা দেখে দর্শকরাও খুঁজে পাবেন নিজেকে।’

সিনেমায় চঞ্চল চৌধুরী অভিনয় করেননি। কথাগুলো বলেছেন শিল্পীদের হয়ে দর্শক হিসেবে। তবে এতে ছোট্ট একটি চরিত্রে অভিনয় করেও দারুণ মুগ্ধ ইরেশ যাকের। তার ভাষায়, ‘ফারুকীর সাথে আমার একটা মিল আছে, আমরা দুজনই একটু বেশি সময় নিয়ে বাবা হয়েছি। বাবা-মায়ের দুর্বলতা খুব সুন্দরভাবে এই সিনেমায় তুলে ধরা হয়েছে। জীবনে এতদূর এসে আমিও অনেকটা প্রতিষ্ঠিত, কিন্তু সন্তানের জন্য যে স্যাক্রিফাইস, যে ভয়, নিজেদের পরিবর্তন করা- এগুলো প্রতিটি মানুষের জীবনের গল্প। আর এখন পর্যন্ত আমার কন্যা আমাকে যতটা সুখ, শান্তি, ভালোবাসা, আনন্দ দেয়; এটার মতো আর কিছু খুঁজে পাইনি আমি। এই ছবিটা সেই বাবা-মায়েদের প্রতিনিধিত্ব করছে।’

সিনেমা দেখার পর প্রতিক্রিয়ায় অভিনেত্রী ও নৃত্যশিল্পী নাদিয়া আহমেদ বলেন, ‘এটা ভীষণ একটা ইমোশনের গল্প। খুব ভালো লেগেছে। তাদের জীবনের ঘটনা, সন্তানের জন্য এতটা সংগ্রাম করতে হয়েছে তাদের। সিনেমাটি দর্শকের ভালো লাগবে।’

কথা বলছিলেন তিশা, পাশে ফারুকী ‘সামথিং লাইক অ্যান অটোবায়োগ্রাফি’ সিনেমার মাধ্যমে প্রথমবার অভিনয় করেছেন ফারুকী, চিত্রনাট্য ও নির্মাণও তারই। এতে ফারুকী-তিশা-ইরেশ যাকেরের সঙ্গে অভিনয় করেছেন ডিপজল, ডলি জহুর, শরাফ আহমেদ জীবনসহ অনেকে।

৮৪ মিনিট দৈর্ঘ্যের এই সিনেমা মুক্তি পেয়েছে চরকির ‘মিনিস্ট্রি অব লাভ’ প্রজেক্টের প্রথম সিনেমা হিসেবে। এর আগে ছবিটি খালি হাতে ঘুরে এসেছে দক্ষিণ কোরিয়ার বুসান চলচ্চিত্র উৎসব থেকে।

/এমএম/এমওএফ/
সম্পর্কিত
হারপিকের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হলেন তিশা
হারপিকের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হলেন তিশা
টাকা দিয়ে ‘অসময়’ দেখেছেন তিন লক্ষাধিক দর্শক!
টাকা দিয়ে ‘অসময়’ দেখেছেন তিন লক্ষাধিক দর্শক!
এখনও আইসিইউতে ফারুকী, তবে বিপদমুক্ত
ফারুকী এখন বিপদমুক্ত: তিশা
হাসপাতালে নির্মাতা ফারুকী, অবস্থা স্থিতিশীল
হাসপাতালে নির্মাতা ফারুকী, অবস্থা স্থিতিশীল
বিনোদন বিভাগের সর্বশেষ
সুনীলকে নিয়ে ফিরছেন কপিল, জানা গেলো দিনক্ষণ
সুনীলকে নিয়ে ফিরছেন কপিল, জানা গেলো দিনক্ষণ
সবচেয়ে ক্ষমতাধর ভারতীয়: তারকাদের মধ্যে শীর্ষে শাহরুখ খান
সবচেয়ে ক্ষমতাধর ভারতীয়: তারকাদের মধ্যে শীর্ষে শাহরুখ খান
কেউ ‘রাজকুমার’ হলে আমি তো রাজা হবো: জায়েদ খান
কেউ ‘রাজকুমার’ হলে আমি তো রাজা হবো: জায়েদ খান
তারকা হতে চাওয়া নিম্নমধ্যবিত্ত রুমিনার গল্প
তারকা হতে চাওয়া নিম্নমধ্যবিত্ত রুমিনার গল্প
নতুন অতিথির অপেক্ষায় দীপিকা-রণবীর
নতুন অতিথির অপেক্ষায় দীপিকা-রণবীর