অবশেষে ভারতীয় পাসপোর্ট নিচ্ছেন অক্ষয়

Send
বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশিত : ১২:০০, ডিসেম্বর ০৭, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১২:১০, ডিসেম্বর ০৭, ২০১৯

অক্ষয় কুমারভারতের সবচেয়ে জনপ্রিয় সুপারস্টারদের মধ্যে অক্ষয় কুমার অন্যতম। এর অনেক কারণ আছে। তার অভিনয় নৈপুণ্য চমৎকার। ৫২ বছর বয়সী এই অভিনেতা বিভিন্ন ঘরানার ছবিতে কাজ করেন। এর মধ্যে বেশিরভাগই বিনোদনমূলক। পর্দার বাইরে সুপারস্টার ভাবমূর্তিকে বিভিন্ন সামাজিক কর্মকাণ্ডে দারুণভাবে কাজে লাগান তিনি।

দুঃখজনক হলেও সত্যি, নাগরিকত্ব নিয়ে বরাবরই ট্রলের শিকার হন অক্ষয়। কয়েক বছর আগে জানাজানি হয়, কানাডার নাগরিকত্ব নিয়েছেন তিনি। তখন থেকেই নিন্দুকেরা বলাবলি করছে, দেশপ্রেম বা দেশের ভালোমন্দ নিয়ে কথা বলার কোনও অধিকার নেই তার। কারণ তিনি নিজেই ভারতীয় নাগরিক নন।

এ বছরের শুরুর দিকে ভারতের লোকসভা নির্বাচনে ভোট দিতে পারেননি অক্ষয়। এ নিয়ে তখন আলোচনা-সমালোচনার ঝড় ওঠে। শেষমেষ এক বিবৃতিতে কানাডার নাগরিকত্ব থাকার কথা স্বীকার করেন তিনি।

অবশেষে ভারতীয় পাসপোর্টের জন্য আবেদন করেছেন অক্ষয়। শিগগিরই এটি তার হাতে আসবে। শুক্রবার (৬ ডিসেম্বর) দিল্লিতে হিন্দুস্তান টাইমস লিডারশিপ সামিটের ১৭তম আসরে সুখবরটি দেন তিনি। এ সময় মঞ্চে তার পাশে ছিলেন কারিনা কাপুর খান। তাদের নতুন ছবি ‘গুড নিউজ’ মুক্তির অপেক্ষায় আছে।

কানাডার নাগরিকত্বকে ঘিরে বিতর্ক প্রসঙ্গে জানতে চাইলে অক্ষয় বলেন, ‘অনেক আগের কথা। আমার ১৪টি ছবি ফ্লপ হয়েছিল। এ কারণে তখন ভেবেছিলাম অন্য কিছু হয়তো করতে হবে। কানাডায় আমার ঘনিষ্ঠ বন্ধুদের একজন থাকে। তাকে ধারাবাহিক ছবি ফ্লপের কথা জানাই। সে আমাকে বলেছিল, ‘অক্ষয় তুই কানাডায় চলে আয়। আমরা মিলেমিশে কাজ করবো।’ সে ভারতীয় বংশোদ্ভুত, তবে কানাডাপ্রবাসী। তাই কানাডায় কাজ করতে কানাডিয়ান পাসপোর্ট পাওয়ার প্রক্রিয়া শুরু করি। বলিউডে আমার ক্যারিয়ার শেষ হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা থেকে কাজটা করেছি। যাই হোক, ভাগ্য ভালো ১৫তম ছবিটি হিট হয়েছে। এরপর আর পেছনে তাকাইনি। যদিও কখনও ভাবিনি পাসপোর্ট বদলাবো। তবে এখন ভারতীয় পাসপোর্টের জন্য আবেদন করেছি। কারণ এ বিষয় নিয়ে লোকে পেছনে লেগে থাকে বলে আমার দুঃখ হয়। নিজেকে হিন্দুস্তানি বোঝাতে আমাকে ছোট একটি বই দেখাতে হবে। সেটাই আমার পাসপোর্ট। এটা আমাকে পীড়া দিয়েছে। এজন্য কাউকে আর কটূকথা বলার সুযোগ দিতে চাই না। তাই ভারতীয় নাগরিকত্বের জন্য আবেদন করেছি। খুব সহসা পাসপোর্ট পেয়ে যাবো।’

অক্ষয় মনে করিয়ে দিয়েছেন, তার স্ত্রী টুইংকেল খান্না কখনও জাতীয়তা পরিবর্তন করেননি। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘নিজেকে কানাডার নাগরিক যদি ভাবতামই তাহলে আমার স্ত্রীকেও কানাডিয়ান বানিয়ে দিতাম। সে মনেপ্রাণে ভারতীয়, আমার ছেলে ভারতীয়, আমার পরিবারের প্রত্যেকেই ভারতীয়। ভারতেই আমি আয়কর দেই। আমার জীবনটাই এখানে।’

এদিকে অক্ষয়ের নতুন ছবি ‘গুড নিউজ’ মুক্তি পাবে আগামী ২৭ ডিসেম্বর। সারোগেসির মাধ্যমে সন্তান জন্মদানের চেষ্টা করা দুই দম্পতিকে ঘিরে ছবিটির গল্প। এতে আরও অভিনয় করেছেন দিলজিৎ দোশাঞ্জ ও কিয়ারা আদভানি।
সূত্র: বলিউড হাঙ্গামা



/জেডএল/এম/

লাইভ

টপ