করোনা ভাইরাস: একের পর এক স্থগিতাদেশ, থেমে যাচ্ছে বিশ্ব বিনোদন

Send
ওয়ালিউল বিশ্বাস
প্রকাশিত : ১৪:৪০, মার্চ ১০, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০০:৫০, মার্চ ১১, ২০২০

করোনাভাইরাস: একের পর এক স্থগিতাদেশ, থেমে যাচ্ছে বিশ্ব বিনোদনবিশ্বব্যাপী ভয়াল নভেল করোনা ভাইরাসে থেমে যাওয়ার উপক্রম হয়েছে বিনোদন অঙ্গনের বিভিন্ন আয়োজন। ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছে, আগামী কয়েক মাসে বন্ধ হতে পারে বিশ্বের বড় বড় উৎসব, কনসার্ট ও সিনেমার কার্যক্রম।
ইতোমধ্যে এসেছে এমন বেশ কিছু স্থগিতাদেশ। দেশেও এখন এটির বিস্তার হচ্ছে। স্থগিত করা হয়েছে মুজিব জন্মশতবর্ষের প্যারেড আয়োজন। বাতিল হয়েছে শিল্পীদের বিদেশি বিভিন্ন কনসার্ট। এ তালিকায় আছে চলচ্চিত্রও। করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের সূত্র ধরে মিডিয়াকেন্দ্রিক এসব আক্রমণের খবর থাকছে আমাদের এই বিশেষ আয়োজনে-
ছবিটির মুক্তি নিয়ে নির্মাতার ঘোষণাঊনপঞ্চাশ বাতাস:
করোনা ভাইরাসে বাংলাদেশ সংক্রমণের ফলে অনির্দিষ্ট সময়ের জন্য পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে ‘ঊনপঞ্চাশ বাতাস’ চলচ্চিত্রটির মুক্তি। মাসুদ হাসান উজ্জ্বল পরিচালিত এ ছবিটি আগামী ১৩ মার্চ পর্দায় আসার কথা ছিল।
এই নির্মাতা বলেন, ‘‘আমরা জানি দর্শক দীর্ঘদিন ধরে অপেক্ষা করছেন সিনেমাটি দেখার জন্য। কিন্তু এই মুহূর্তে আমরা কোনোভাবেই মানুষকে কোনও ধরনের বড় জমায়েতে একত্রিত হতে উৎসাহিত করতে চাই না। আমরা বিশ্বাস করি, ইতোমধ্যে আপনারা যেই ভালবাসা ‘উনপঞ্চাশ বাতাস’কে দিয়েছেন তা অক্ষুণ্ণ থাকবে।’’
নো টাইম নো ডাই:
করোনা ভাইরাসের কারণে পিছিয়ে গেছে জেমস বন্ড সিরিজের ছবি ‘নো টাইম নো ডাই’।
ছবিটির প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান এমজিএম, ইউনিভার্সাল এবং প্রযোজক মাইকেল জি. উইলসন ও বারবারা  ব্রকলি টুইটারে এক যৌথ বিবৃতিতে সম্প্রতি এ ঘোষণা দেন।
এতে তারা বলেন, ‘স্বাস্থ্যের প্রতি মনোযোগ দেওয়ার সময় এখন। আর এ কারণে জনসমক্ষে কোনও ইভেন্ট আয়োজন না করাই ভালো। বর্তমান অবস্থা বিবেচনা করে আমরা ছবির মুক্তির তারিখটি এপ্রিল মাস থেকে পিছিয়ে নিলাম।’
তারা জানান, এপ্রিলে নয়, নভেম্বর মাসে মুক্তি পাবে ‌‘নো টাইম, নো ডাই’।
ড্যানিয়েল ক্রেগ অভিনীত এ ছবিটি ১২ নভেম্বর ইংল্যান্ডে ও ২৫ নভেম্বর বিশ্বব্যাপী মুক্তি পাবে।
‘নো টাইম টু ডাই’ ছবির পোস্টারের সামনে দর্শকশঙ্কায় ব্ল্যাক উইডো ও ফাস্ট অ্যান্ড ফিউরিয়াস:
পিছিয়ে যেতে পারে ‘ব্ল্যাক উইডো’ ও ‘ফাস্ট অ্যান্ড ফিউরিয়াস’ ফ্রাঞ্চাইজির নবম কিস্তি ‘এফনাইন’। চলচ্চিত্র বিশ্লেষক ও ব্রিটিশ ম্যাগাজিন স্ক্রিন ইন্টারন্যাশনালের উপ-সম্পাদক লুইস টাট বলেন, ‘প্রযোজক-পরিবেশকরা প্রতি মুহূর্তে পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছেন। দুটি ছবিই পিছিয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা আছে।’
মারভেল স্টুডিওসের প্রযোজনা ও ওয়াল্ট ডিজনি স্টুডিওস মোশন পিকচার্সের পরিবেশনায় আসার কথা ‘ব্ল্যাক উইডো’। অন্যদিকে ইউনিভার্সেল পিকচার্সের পরিবেশনায় মুক্তির কথা রয়েছে ‘এফনাইন’ ছবিটি।
মিশন ইম্পসিবল ৭:
ছবি মুক্তির স্থগিতাদেশের কথা তো জানা গেল। এবার ছবির কাজই বন্ধ করেছে বিশ্বখ্যাত আরও একটি সিরিজ চলচ্চিত্র ‘মিশন ইম্পসিবল’। তাদের নতুন কিস্তি ‘মিশন ইম্পসিবল ৭’-এর কাজ চলছিল ইতালিতে। দেশটি এখন করোনার মারাত্মক কবলে। ইতোমধ্যে সাড়ে চার শ’ মানুষ মারা গেছে দেশটির। আর এ কারণে শুটিং পুরোপুরি বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে টম ক্রুজ অভিনীত এ চলচ্চিত্রটির।
হাজার খানেক সিনেমা হল বন্ধ:
আরএনএ ভাইরাস নভেল করোনায় প্রথম আক্রান্ত দেশ চীন। এখন পর্যন্ত ৮০৭৫৭ জন সংক্রমিত হয়েছে। মৃতের সংখ্যা আরও ভয়াবহ- ৩১৩৬ জন। আর এ কারণে চীনের হাজার খানেক সিনেমা হল বন্ধ। অন্যদিকে ২ মার্চ থেকে ফ্রান্সের ৩৮টি সিনেমা ও ইতালির অর্ধেক প্রেক্ষাগৃহ এখন বন্ধ আছে।
টিভি শো:
বিশ্বখ্যাত টিভি চ্যানেল আইটিভি তাদের একটি ডেইলি সিরিয়াল বন্ধ করে দিয়েছে। অন্যদিকে সিবিসি তাদের ‌‘দ্য অ্যামাজিং রেস’-এর ৩৩তম আসরের নির্মাণ স্থগিত রেখেছে।
দীপিকা পাড়ুকোন:
ফ্যাশন সচেতন শিল্পীদের জন্য ফ্যাশন উইক যেন তীর্থস্থান। তবে সে স্থানেও ছিল শঙ্কার কণ্টক। কারণ করোনা ভাইরাস। আর সে কারণে প্যারিসে আয়োজিত এ অনুষ্ঠান সফর বাতিল করেন দীপিকা পাড়ুকোন। ৩ মার্চ এর সমাপনী আয়োজনে তার উপস্থিত থাকার কথা ছিল।
শো বাতিল করেছেন দীপিকা পাড়ুকোনস্টোর্মজি:
ব্রিটিশ এই র‍্যাপার তার বিশ্ব সফর বাতিল করেছে। বিশেষ করে এশিয়াতে আগামী কয়েক মাস তিনি কনসার্টে অংশ নেবেন না। তার তালিকায় আছে মালয়েশিয়া, সিঙ্গাপুর, জাপান, চীন ও সাউথ কোরিয়ার মতো দেশগুলো।
মারায়া কেরি:
বিশ্বখ্যাত সংগীতশিল্পী মারায়া কেরিও আছেন একই দলে। হাওয়াই দীপপুঞ্জের কনসার্ট তিনি বাতিল করেছেন। ১০ মার্চ তার সেখানে গাওয়ার কথা ছিল। জানিয়েছেন, নভেম্বরের আগ পর্যন্ত তিনি যাচ্ছেন না সেদিকে।
এভ্রিল ল্যাভিন:
কানাডিয়ান-ফ্রেঞ্চ এ গায়িকা ঘোষণা দিয়েছে আগামী কয়েকটি শো তিনি আপাতত করছেন না। আর এ জন্য দুঃখ প্রকাশ করে ভক্তদের বলেছেন, সবাই আগে সুস্থ থাকুন। সুইজারল্যান্ড, জাপান, তাইওয়ান, হংকং ও ফিলিপাইনে কনসার্ট করার কথা ছিল তার।
শো বাতিল করেছেন মারায়া কেরিআলট্রা সংগীত উৎসব:
আগামী ২২-২৩ মার্চ এটি যুক্তরাষ্ট্রের মিয়ামিতে হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু করোনা ভাইরাসের কারণে এটি বাতিল করা হয়েছে।
বেইজিং আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব:
করোনা ভাইরাস মহামারির কারণে স্থগিত হয় এ উৎসবটি। অনির্দিষ্ট সময়ের জন্য পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে এটি। ‌‘দশম বেইজিং আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব’টি ১৯ থেকে ২৬ এপ্রিল পর্যন্ত হওয়ার কথা ছিল।
রেড সি আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব:
স্থগিতের তালিকায় আছে রেড সি আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের এবারের সিডিউল। আগামী ১২-২১ মার্চ এটি সৌদি আরবে হওয়ার কথা ছিল।
কান চলচ্চিত্র উৎসব অনিশ্চিত:
দক্ষিণ ফ্রান্সের সাগরপাড়ের কান শহরে আয়োজন করা হয় বিশ্বের সবচেয়ে মর্যাদাপূর্ণ চলচ্চিত্র উৎসব।
এবারের উৎসব অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ১২ থেকে ২৩ মে পর্যন্ত। চলছে প্রস্তুতি। যদিও সেই প্রস্তুতি এখন কিছুটা থমকে গেছে করোনাভাইরাসের কারণে।
উৎসবের একজন মুখপাত্র জানান, করোনা ভাইরাসের কারণে এ বছর উৎসব বাতিল হবে কিনা তা এখনও বলার মতো সময় আসেনি। তবে তারা পুরো বিষয়টি গভীর পর্যবেক্ষণ করছেন।
এখন পর্যন্ত ফ্রান্সে ১৪১২ জন ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। মারা গেছেন ৩০ জন। তাই উৎসব বাতিল হওয়ার আশঙ্কাটা বেশ জেঁকে বসেছে।
এদিকে খ্যাতনামা এসব উৎসব ছাড়াও আরও কয়েকটি আয়োজন বাতিল ও স্থগিত হয়েছে। যার মধ্যে রয়েছে আন্তর্জাজিক চলচ্চিত্র উৎসব- হিউম্যান রাইটস ফোরাম, থেসালোনিকি ডকুমেন্টারি উৎসব।
করোনা ভাইরাসের সংক্রমিতের সংখ্যার মতোই এমন বাতিল হওয়ার ফর্দ বাড়ছেই। তাই বিনোদন অঙ্গনের এ ক্ষেত্রগুলো বড় ধরনের ঝুঁকির মধ্যে পড়তে যাচ্ছে বলেই মনে করেন বিশ্ব বণিকরা।বাতিল হতে পারে বিশ্বের সবচেয়ে বড় চলচ্চিত্র উৎসব কান-ও
সূত্র: নিউ ইয়র্ক টাইমস, ইনডিপেনডেন্ট, ভ্যারাইটি, ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস ও বাংলা ট্রিবিউন

/এমএম/

লাইভ

টপ