সু চির দলের ৩ প্রার্থীকে অপহরণ, আরাকান আর্মির দায় স্বীকার

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ০৪:০২, অক্টোবর ২০, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১১:৪৭, অক্টোবর ২০, ২০২০

মিয়ানমারের পশ্চিমাঞ্চলীয় রাখাইন রাজ্যে অপহরণের শিকার হয়েছেন দেশটির নেতা অং সান সু চির নেতৃত্বাধীন দলের তিন প্রার্থী। আগামী ৮ নভেম্বরের নির্বাচন উপলক্ষে প্রচারণা চালাতে গিয়ে  গত সপ্তাহে অপহরণকারীদের কবলে পড়েন দেশটির ক্ষমতাসীন ন্যাশনাল ডেমোক্র্যাটিক লিগের (এনএলডি) এই প্রার্থীরা।  সোমবার (১৯ অক্টোবর) এই ঘটনার দায় স্বীকার করেছে অঞ্চলটির সশস্ত্র বিদ্রোহী গোষ্ঠী আরাকান আর্মি (এএ)। এই প্রার্থীদের বিনিময়ে  ছাত্র বিক্ষোভের সময় আটককৃতদের মুক্তির দাবি জানিয়েছে গোষ্ঠীটি। ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

নৃতাত্ত্বিক রাখাইন জনগোষ্ঠীর অধিকারের দাবিতে মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে সশস্ত্র লড়াই চালিয়ে আসছে আরাকান আর্মি। গত বছর থেকে অঞ্চলটিতে এই লড়াই তীব্র হয়েছে। এই লড়াইয়ে এনএলডি সরকারের সেনাবাহিনী বেসামরিকদের ওপর সহিংসতা চালিয়েছে বলে অভিযোগ করে আসছে গোষ্ঠীটি।  

সোমবার অনলাইনে পোস্ট করা এক বিবৃতিতে আরাকান আর্মি জানিয়েছে, ক্ষমতাসীন দল এনএলডি’র তিন প্রার্থী-মিন অং, নি নি মে মিয়ান্ট এবং চিট চিট চাওকে তারাই অপহরণ করেছে। ওই বিবৃতিতে গোষ্ঠীটি জানিয়েছে, তারা অপহৃতদের মুক্তি দিতে প্রস্তুত, তবে এর বিনিময়ে সাম্প্রতিক বিক্ষোভের সময় কর্তৃপক্ষের হাতে আটক শিক্ষার্থী এবং নিরীহ মানুষদের মুক্তি দিতে হবে। তবে মিয়ানমারের ক্ষমতাসীন দল এনএলডি’র কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য মিয়ো নুয়ান্ট বলেন, ‘তারা যদি এইভাবে দাবি তুলতে থাকে তাহলে তা মেনে নেওয়া আমাদের জন্য কঠিন হবে।’

উল্লেখ্য, গত ১৪ অক্টোবর রাখাইনের দক্ষিণাঞ্চলীয় তংকুক টাউনশিপে এনএলডি’র এক প্রচার সভায় সশস্ত্র ব্যক্তিরা ঢুকে পড়ে।  ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী ও এনএলডি সমর্থক থান্ট জিন পাইয়ো জানান, ওই সময় তাকে সহ আরও অন্তত দশ জন নারী ও পুরুষকে ‘বিশ্বাসঘাতক’ আখ্যা দিয়ে মারধর করা হয়। পরে সেখান থেকে ওই তিন প্রার্থীকে তারা অপহরণ করে নিয়ে যায় বলেও জানান তিনি।

/জেজে/বিএ/

লাইভ

টপ