X
শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪
৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

রাজধানীর ১০ থানায় কিশোর অপরাধ বেশি: ডিএমপি কমিশনার

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট 
২৭ এপ্রিল ২০২৪, ১৭:০৩আপডেট : ২৭ এপ্রিল ২০২৪, ১৭:০৩

 ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি) কমিশনার হাবিবুর রহমান বলেছেন, রাজধানীর মিরপুর, মোহাম্মদপুর, যাত্রাবাড়ী ও উত্তরাসহ ১০ থানা এলাকায় কিশোর গ্যাংয়ের তৎপরতা বেশি। কিশোর অপরাধ নির্মূলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী জোড়ালো ভূমিকা রাখছে।

শনিবার (২৭ এপ্রিল) দুপুরে রাজধানীর বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন করপোরেশনে (এফডিসিতে) ডিবেট ফর ডেমোক্রেসির আয়োজনে ‘কিশোর গ্যাং প্রতিরোধে রাজনৈতিক সদিচ্ছা ও সামাজিক আন্দোলন নিয়ে ছায়া সংসদ’ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ডিবেট ফর ডেমোক্রেসির চেয়ারম্যান হাসান আহমেদ চৌধুরী কিরণ।

তিনি বলেন, ‘আজকের কিশোর আগামী দিনের ভবিষ্যৎ। তারাই আগামীতে নেতৃত্ব দেবে। ৯ থেকে ১৮ বছর বয়সী কেউ অপরাধ করলে আমরা তাকে কিশোর অপরাধী বলছি। এই বয়সী কিশোররা দলবদ্ধভাবে অপরাধ করলে তাকে আমরা বলছি কিশোর গ্যাং।’

ডিএমপি কমিশনার বলেন, ‘কিশোর গ্যাং নিয়ন্ত্রণে প্রতিকার ও প্রতিরোধমূলক কার্যক্রম চলমান। মসজিদে মসজিদে জুমার দিনে ওসিরা কিশোর গ্যাং প্রতিরোধে আলোচনা করছেন। প্রতিরোধমূলক বিভিন্ন কার্যক্রম চালাচ্ছে পুলিশ। তবে কিশোর অপরাধ প্রতিরোধে মূল কাজ হতে হবে পরিবার থেকে। মা-বাবা, ভাই-বোন আত্মীয়স্বজনে ভূমিকা বেশি। এছাড়াও শিক্ষকরা পারেন কিশোরদে ভালো পথ দেখাতে।’

কিশোর গ্যাংয়ের গড ফাদারদের তালিকা করে আইনের আওতায় আনা সম্ভব হয়েছে কিনা জানতে চাইলে ডিএমপি কমিশনার বলেন, ‘যারা কিশোর গ্যাংয়ের মদদদাতা, তাদের তালিকা করা হয়েছে। কিশোর গ্যাংয়ের অদ্ভুত অদ্ভুত নাম রয়েছে, তাদের তালিকা করা হয়েছে।’

টিকটকে আপত্তিকর কনটেন্টের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘এটি অবশ্যই নেতিবাচক। ইতোমধ্যে আমাদের সাইবার টিম এমন টিকটকারদের আইনের আওতায় এনেছে। পুলিশের সাইবার টিম বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনের (বিটিআরসি) কাছে বিভিন্ন কনটেন্টের তালিকা দেওয়া হয় নিয়মিত।’

কিশোর অপরাধ নির্মূলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর গাফিলতি আছে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে ডিএমপি কমিশনার বলেন, ‘আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কোনও গাফিলতি নেই। অভিযোগ এলেই সঙ্গে সঙ্গে মামলা হয় এবং জড়িতদের আইনের আওতায় এনে আদালতে সোপর্দ করা হয়। কিন্তু প্রাথমিকভাবে কিশোর গ্যাং নিয়ন্ত্রণের কাজ পুলিশের নয়। প্রাথমিকভাবে স্থানীয় জনসাধারণের কাজ। জনগণ সোচ্চার হলে কিশোর গ্যাং কালচার কমে যাবে।’

কিশোর গ্যাংয়ের সঙ্গে সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলদের নাম এসেছে। এ বিষয়ে কোনও আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে কিনা জানতে চাইলে হাবিবুর রহমান বলেন, ‘কাউন্সিলদের কিছু অনুসারী রয়েছে, যাদের বয়স ১৮ বছরের ওপরে। এলাকায় রাজনীতি টিকিয়ে রাখতে কেউ কেউ কিশোরদের ব্যবহার করছে। সরাসরি কোনও কাউন্সিল কিশোরদের নিয়ে অপরাধের জন্য গ্যাং তৈরি করেছেন এমন তথ্য আমরা পাইনি। কাউন্সিলদের সহযোগীরা কেউ কেউ কিশোরদের নিয়ে চলাচল করেন। এসব বিষয়ে পুলিশ ব্যবস্থা নিচ্ছে।’

প্রতিযোগিতায় বিচারক হিসেবে ছিলেন– অধ্যাপক আবু মুহাম্মদ রইস, সাংবাদিক জি এম তসলিম, সাংবাদিক জিয়া খান, সাংবাদিক অনিমেষ কর ও সাংবাদিক কাওসার সোহেলী।

/এবি/আরকে/
সম্পর্কিত
অনলাইন ও অফলাইন গরুর হাটে ‘বিশেষ নজর’ রাখবে ডিএমপি
এমপি আনার হত্যানেপালে গ্রেফতার সিয়ামকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে কলকাতার সিআইডি
শিক্ষার্থীরা সচেতন হলে সমাজে মাদক থাকবে না: ডিএমপি কমিশনার
সর্বশেষ খবর
অবশেষে বদলি হলেন সাতক্ষীরা পৌরসভার সেই সিইও
অবশেষে বদলি হলেন সাতক্ষীরা পৌরসভার সেই সিইও
কোরবানির বর্জ্য অপসারণে নিয়ন্ত্রণ কক্ষ খুলেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি
কোরবানির বর্জ্য অপসারণে নিয়ন্ত্রণ কক্ষ খুলেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি
রাতে উত্তরের মহাসড়কে যানবাহনের চাপ আরও বেড়েছে
রাতে উত্তরের মহাসড়কে যানবাহনের চাপ আরও বেড়েছে
ঈদে চামড়া ব্যবসায়ীদের নজরদারিতে রাখবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী
ঈদে চামড়া ব্যবসায়ীদের নজরদারিতে রাখবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী
সর্বাধিক পঠিত
ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণিতে মূল্যায়ন হবে যেভাবে
ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণিতে মূল্যায়ন হবে যেভাবে
শ্রমিকদের অবরোধে বন্ধ ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক
শ্রমিকদের অবরোধে বন্ধ ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক
শেবাগের সমালোচনার জবাবে যা বললেন সাকিব
শেবাগের সমালোচনার জবাবে যা বললেন সাকিব
১৯ বল ব্যাট করে ওমানকে হারালো ইংল্যান্ড
১৯ বল ব্যাট করে ওমানকে হারালো ইংল্যান্ড
সেন্টমার্টিনে খাদ্যসংকট, কক্সবাজার থেকে গেলো পণ্যবোঝাই জাহাজ
সেন্টমার্টিনে খাদ্যসংকট, কক্সবাজার থেকে গেলো পণ্যবোঝাই জাহাজ