behind the news
Rehab ad on bangla tribune
Vision Refrigerator ad on bangla Tribune

অসতর্ক অর্থমন্ত্রী, উদ্বিগ্ন নাগরিক

তুষার আবদুল্লাহ১২:২৬, মার্চ ১৯, ২০১৬

Tushar Abdullahউদ্বেগের মধ্যে পড়ে গেলাম। এমনিতেই ধুলোবালির মতো চারপাশে নানা উদ্বেগ-উৎকণ্ঠা উড়াউড়ি করছে। সেখানে আবার অর্থমন্ত্রী সেখানে নতুন করে ধুলিঝড় আনলেন। ওই ধুলিঝড়েই উদ্বেগের মাত্রা গেলো বেড়ে। প্রথম দোষ হয়তো আমারই। কী দরকার ছিল পত্রিকায় প্রকাশিত তার সাক্ষাৎকারটি পড়ার। পড়েছি বলেই না উদ্বেগের ঘুর্ণিতে পড়ে গেলাম। অর্থমন্ত্রীর সাক্ষাৎকারটি অর্থখাতের বিশৃংখলার কেবল ইঙ্গিতই প্রমাণ রাখে। সদ্য পদত্যাগী গভর্নর আতিউর রহমান বরাবরই মনে করতেন, তাকে নিয়োগ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। যে কারণে তিনি অর্থমন্ত্রীকে জমা-খরচের খাতায় রাখতেন না। তার শেষ প্রমাণ পাওয়া যায় অর্থমন্ত্রী আতিউর রহমানের বিদেশ থেকে ফিরে আসার অপেক্ষায় বাড়িতে বসে আছেন। আর আতিউর রহমান গিয়ে প্রধানমন্ত্রীর কাছে পদ্যতাগ পত্র দিয়ে এলেন।
অর্থমন্ত্রী সাক্ষাৎকারে বলেছেন- আতিউর রহমান ঘটনার গভীরে প্রবেশ করতে পারেননি। এবং তার জন্যই দুই ডেপুটি গভর্নরের চাকরি গেছে। কেন্দ্রীয় ব্যাংকে সদ্য বিদায়ী গভর্নরের অবদান ‘জিরো’। তাকে তিনি জনসংযোগ কর্মীর কাতারে নিয়ে গেছেন। অর্থমন্ত্রী কেবল যে আতিউর রহমানের দিকেই ক্ষোভ ঝেড়েছেন তাই নয়, তিনি তার ক্ষোভের তীর রেখেছেন রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) চেয়ারম্যানের দিকেও। তিনি বলেছেন আগের অর্থ বছরে রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে ব্যর্থ হয়েছে এনবিআর। কারণ চেয়ারম্যান কোনও কাজ করে না। তিনিও নাকি শুধু বক্তৃতা আর জনসংযোগ করে বেড়ান। এনবিআর চেয়ারম্যান জানেনইনা তার প্রতিষ্ঠান কীভাবে চলছে। এতোটুকুতে উদ্বেগের পাশাপাশি বিস্ময়ও দেখা দিতে পারে যে কারও, যেমন আবার নিজেই উভয় অনুভূতি অনুভব করছি। কি করে কেন্দ্রীয় ব্যাংক বা আর্থিক খাত গত সাত বছর পার করে এলো, যেখানে অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে গভর্নরের মনস্তাত্ত্বিক দূরত্ব যোজন-যোজন। বিস্মিত এই কারণেও যে রাজস্ব বোর্ডের চেয়ারম্যানও তার নাগালের বাইরে। রাজস্ব বোর্ডের চেয়ারম্যান বিষয়ে যদি অর্থমন্ত্রীর দৃষ্টিভঙ্গি বা অবস্থান এমন হয়, তবে রাজস্ব এবং অর্থখাতের শৃঙ্খলা নিয়ে উদ্বেগ দেখা দেওয়াই স্বাভাবিক। সামনে আরও আসছে নতুন অর্থবছর।

*** প্রকাশিত মতামত লেখকের একান্তই নিজস্ব। বাংলা ট্রিবিউন-এর সম্পাদকীয় নীতি/মতের সঙ্গে লেখকের মতামতের অমিল থাকতেই পারে। তাই এখানে প্রকাশিত লেখার জন্য বাংলা ট্রিবিউন কর্তৃপক্ষ লেখকের কলামের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে আইনগত বা অন্য কোনও ধরনের কোনও দায় নেবে না।

Ifad ad on bangla tribune

লাইভ

Nitol ad on bangla Tribune

কলামিস্ট

টপ