X
বৃহস্পতিবার, ০৬ মে ২০২১, ২৩ বৈশাখ ১৪২৮

সেকশনস

বারবার আদালত অবমাননার রুল ইস্যু করতে হবে কেন: প্রধান বিচারপতি

আপডেট : ১০ এপ্রিল ২০২১, ২০:১০

সংবিধান অনুযায়ী আদালতের নির্দেশনা পালনে দেশের নির্বাহী বিভাগসহ সবার বাধ্যবাধকতা রয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন। তিনি বলেন, ‘সংবিধানের ১১২ অনুচ্ছেদে বলা আছে, দেশের নির্বাহী বিভাগসহ সবাই সুপ্রিমকোর্টের সঙ্গে কাজ করবে। যেখানে নির্দেশ পালনে সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতা আছে, সেখানে কেন আমাদের আবার তাদের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার রুল ইস্যু করতে হবে? রাষ্ট্রের সবার দায়িত্ব হলো সুপ্রিম কোর্টের রায় কার্যকর করা। আমরা কন্টেম্পট (আদালত অবমাননা) করে করে হয়রান। কন্টেম্পট করেও পুরোপুরি রায় কার্যকর যেভাবে হওয়ার কথা সেভাবে হচ্ছে না। এটা এখন দুঃখের বিষয়।’

শনিবার (১০ এপ্রিল) সুপ্রিম কোর্টের আপিল ও হাইকোর্ট বিভাগের দুই বিচারপতি দুটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে প্রধান বিচারপতি এসব কথা বলেন।

প্রধান বিচারপতি বলেন, ‘প্রফেসর মুনতাসির মামুন একটা কথা বলেছেন, আমাদের রায় কার্যকর হচ্ছে না। এজন্য একটা সেল করা দরকার।’

তিনি আরও বলেন, ‘সরকারি সম্পত্তি তো আসলে সরকারি না। সম্পত্তির মালিক হলো জনগণ। সরকার হলো সংরক্ষণকারী। জনগণের পক্ষে সরকার সম্পত্তি সংরক্ষণ করে। এই সরকারি সম্পত্তি সংরক্ষণ করা কিন্তু সবার দায়িত্ব। আমি বলতে চাই, আমাদের যেসব রায় হচ্ছে আশা করি নির্বাহী বিভাগের প্রত্যক্ষ সহযোগিতায় প্রত্যেকটা রায় বাস্তবায়িত হবে।’

সৈয়দ মাহমুদ হোসেন বলেন, ‘বাংলাদেশ কোনও খুনিদের দেশ নয়, এটা বঙ্গবন্ধুর সোনার দেশ। বঙ্গবন্ধুর এই সোনার দেশ অবশ্যই আমরা রক্ষা করবো। বিচার বিভাগ এ বিষয়ে তার সম্পূর্ণ দায়িত্ব পালন করবে আপনাদের কথা দিতে পারি।'

এসময় সুপ্রিম কোর্ট আপিল বিভাগের বিচারপতি ওবায়দুল হাসান রচিত ‘বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ একজন যুদ্ধ শিশুর গল্প এবং অন্যান্য’ এবং হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিমের ‘বঙ্গবন্ধু সংবিধান আইন আদালত ও অন্যান্য’ দুটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করা হয়। বই দুটি প্রকাশ করে মাওলা বাদ্রার্স প্রকাশনী।

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন, সুপ্রিম কোর্ট আপিল ও হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতিবৃন্দ, সাবেক সংস্কৃতি মন্ত্রী নাট্যজন আসাদুজ্জামান নূর, অ্যাটর্নি জেনারেল এএম আমিন উদ্দিন, লেখক, সাহিত্যিক অধ্যাপক মুনতাসির মামুন, মুক্তিযুদ্ধ যাদু ঘরের ট্রাস্টি মফিদুল হক, একাত্তর টিভির প্রধান সম্পাদক মোজাম্মেল বাবুসহ অতিথিরা।

 

/বিআই/এফএস/

সম্পর্কিত

পরিদর্শককে পিটিয়ে সার্জেন্ট ও টিএসআই ক্লোজড

পরিদর্শককে পিটিয়ে সার্জেন্ট ও টিএসআই ক্লোজড

অডিও ফাঁসকারীদের আইনের আওতায় আনতে আইনি নোটিশ

অডিও ফাঁসকারীদের আইনের আওতায় আনতে আইনি নোটিশ

বেদের ছদ্মবেশে ইয়াবার কারবার

বেদের ছদ্মবেশে ইয়াবার কারবার

রায়হান হত্যা নিয়ে যা বললো পিবিআই

রায়হান হত্যা নিয়ে যা বললো পিবিআই

হেফাজত নেতা আতাউল্লাহ আমীন ফের রিমান্ডে

হেফাজত নেতা আতাউল্লাহ আমীন ফের রিমান্ডে

রিকশাচালককে নির্যাতন, সেই ব্যক্তি কারাগারে

রিকশাচালককে নির্যাতন, সেই ব্যক্তি কারাগারে

হেফাজত নেতা মুফতি শাখাওয়াত হোসাইন রিমান্ডে

হেফাজত নেতা মুফতি শাখাওয়াত হোসাইন রিমান্ডে

সভাপতি পদ নিয়ে সুপ্রিম কোর্ট বারে পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলন

সভাপতি পদ নিয়ে সুপ্রিম কোর্ট বারে পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলন

ছিনতাইকারীর হ্যাঁচকা টানে রিকশাআরোহীর মৃত্যু

ছিনতাইকারীর হ্যাঁচকা টানে রিকশাআরোহীর মৃত্যু

শাপলা চত্বরের মতো তাণ্ডব সৃষ্টির চেষ্টা করলে যথাযথ ব্যবস্থা

শাপলা চত্বরের মতো তাণ্ডব সৃষ্টির চেষ্টা করলে যথাযথ ব্যবস্থা

সড়ক দুর্ঘটনার ৩৫ শতাংশই মোটরসাইকেলে

সড়ক দুর্ঘটনার ৩৫ শতাংশই মোটরসাইকেলে

বিদেশ গেলে ৩ মাসের মধ্যে ফিরতে হবে তাফসির আওয়ালকে

বিদেশ গেলে ৩ মাসের মধ্যে ফিরতে হবে তাফসির আওয়ালকে

সর্বশেষ

পরিদর্শককে পিটিয়ে সার্জেন্ট ও টিএসআই ক্লোজড

পরিদর্শককে পিটিয়ে সার্জেন্ট ও টিএসআই ক্লোজড

২০ দিন পর রাজপথে নেমেছে গণপরিবহন

২০ দিন পর রাজপথে নেমেছে গণপরিবহন

ইন্দোনেশিয়ার বিমানবন্দরে করোনা টেস্ট নিয়ে জালিয়াতি

ইন্দোনেশিয়ার বিমানবন্দরে করোনা টেস্ট নিয়ে জালিয়াতি

করোনা শনাক্তের সংখ্যা ১৫ কোটি ৫৮ লাখ ছাড়িয়েছে

করোনা শনাক্তের সংখ্যা ১৫ কোটি ৫৮ লাখ ছাড়িয়েছে

ট্রাকের নিচে পড়ে মোটরসাইকেল আরোহীর মৃত্যু

ট্রাকের নিচে পড়ে মোটরসাইকেল আরোহীর মৃত্যু

রাজধানীতে ভিক্ষুক বেড়েছে কয়েক গুণ

রাজধানীতে ভিক্ষুক বেড়েছে কয়েক গুণ

কোন কোন আত্মীয়কে জাকাত দেওয়া যায় না?

কোন কোন আত্মীয়কে জাকাত দেওয়া যায় না?

ট্রাকচাপায় শাবি ছাত্র নিহত

ট্রাকচাপায় শাবি ছাত্র নিহত

স্বস্তির বৃষ্টিতে ফল-ফসলের উপকার

স্বস্তির বৃষ্টিতে ফল-ফসলের উপকার

করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে অর্থনীতিবিদ মাহবুবউল্লাহ

করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে অর্থনীতিবিদ মাহবুবউল্লাহ

অকস্মাৎ হানায় হাজারো বাঙালি গ্রেফতার

অকস্মাৎ হানায় হাজারো বাঙালি গ্রেফতার

বাংলাদেশ থেকে কৃষি শ্রমিক নিতে চায় গ্রিস

বাংলাদেশ থেকে কৃষি শ্রমিক নিতে চায় গ্রিস

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

অডিও ফাঁসকারীদের আইনের আওতায় আনতে আইনি নোটিশ

অডিও ফাঁসকারীদের আইনের আওতায় আনতে আইনি নোটিশ

বেদের ছদ্মবেশে ইয়াবার কারবার

বেদের ছদ্মবেশে ইয়াবার কারবার

হেফাজত নেতা আতাউল্লাহ আমীন ফের রিমান্ডে

হেফাজত নেতা আতাউল্লাহ আমীন ফের রিমান্ডে

রিকশাচালককে নির্যাতন, সেই ব্যক্তি কারাগারে

রিকশাচালককে নির্যাতন, সেই ব্যক্তি কারাগারে

হেফাজত নেতা মুফতি শাখাওয়াত হোসাইন রিমান্ডে

হেফাজত নেতা মুফতি শাখাওয়াত হোসাইন রিমান্ডে

সভাপতি পদ নিয়ে সুপ্রিম কোর্ট বারে পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলন

সভাপতি পদ নিয়ে সুপ্রিম কোর্ট বারে পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলন

ছিনতাইকারীর হ্যাঁচকা টানে রিকশাআরোহীর মৃত্যু

ছিনতাইকারীর হ্যাঁচকা টানে রিকশাআরোহীর মৃত্যু

সড়ক দুর্ঘটনার ৩৫ শতাংশই মোটরসাইকেলে

সড়ক দুর্ঘটনার ৩৫ শতাংশই মোটরসাইকেলে

বিদেশ গেলে ৩ মাসের মধ্যে ফিরতে হবে তাফসির আওয়ালকে

বিদেশ গেলে ৩ মাসের মধ্যে ফিরতে হবে তাফসির আওয়ালকে

জামিনে কারামুক্ত ২৭৮৪৪ হাজতি

জামিনে কারামুক্ত ২৭৮৪৪ হাজতি

© 2021 Bangla Tribune