X
মঙ্গলবার, ১১ মে ২০২১, ২৮ বৈশাখ ১৪২৮

সেকশনস

চুরির অভিযোগে তরুণীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগ

আপডেট : ১৪ এপ্রিল ২০২১, ১৩:০৮

মোবাইলফোন চুরির অপবাদ দিয়ে ফরিদপুরের মধুখালীতে ২০ বছরের এক সন্তানের জননীকে বাড়ি থেকে তুুলে নিয়ে দফায় দফায় সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। আর ওই তরুণীকে তার বান্ধবীই এমন পরিস্থিতিতে ফেলেছে বলে অভিযোগ রয়েছে। ধর্ষণের শিকার ওই তরুণীকে অসুস্থ অবস্থায় মঙ্গলবার (১৩ এপ্রিল) দুপুরে ফরিদপুর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

পরিবার ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, ধর্ষণের শিকার তরুণীর বাড়ি মধুখালী পৌর এলাকার পাশের গ্রামে। উপজেলার মাকড়াইল গ্রামে তার বিয়ে হয়েছে। তার তিন বছরের একটি সন্তান রয়েছে। কয়েকদিন আগে তিনি তার বাবার বাড়িতে বেড়াতে আসেন। বাড়িতে আসার পর শহরের আশ্রয়ণ কেন্দ্রে বসবাসরত পারুল আক্তারের মেয়ে বান্ধবী রোজিনার সঙ্গে তার যোগাযোগ হয়।

গত রবিবার (১১ এপ্রিল) রোজিনা ও তার মা পারুলসহ কয়েকজন ওই তরুণীর বাড়িতে যান। সেখানে বিভিন্ন গল্প শেষে ফিরে আসেন তারা। তবে কিছুক্ষণ পর রোজিনা ওই বাড়িতে আবার গিয়ে তার মোবাইলফোন ফেলে যাওয়ার কথা বলে। কিন্তু রোজিনার বান্ধবী বলেন- সে কোনও মোবাইলফোন ফেলে যায়নি। বিষয়টি নিয়ে দু'জনের মধ্যে বচসার একপর্যায়ে রোজিনা ওই বাড়ি থেকে চলে আসে। পরে বিকালে রোজিনা ও তার মা পারুল কয়েকজন লোক সঙ্গে নিয়ে মেয়েটিকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে যায়। এর দুইদিন পর মঙ্গলবার (১৩ এপ্রিল) সকালে তাকে অচেতন অবস্থায় বাড়ির সামনে ফেলে যাওয়া হয়।

ধর্ষণের শিকার ওই তরুণী এখন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তিনি বলেন, মোবাইলফোন চুরির অপবাদ দিয়ে রোজিনা ও তার মা পারুল আমার সব কিছু শেষ করে দিয়েছে। রবিবার বিকালে তারা আমাকে তুলে নিয়ে বালিয়াকান্দি উপজেলার জামালপুর এলাকার একটি বাড়িতে রাখে। রাতে খাবারের সঙ্গে আমাকে কিছু খাওয়ানো হয়। আমি কিছুটা অচেতন হয়ে পড়ি। এরই মধ্যে আমার ওপর ঝাঁপিয়ে পড়ে এক ব্যক্তি। আমাকে ধর্ষণ করে।

ওই তরুণী আরও বলেন, সোমবার সেখান থেকে আমাকে নিয়ে আসা হয় মধুখালী চিনিকল মসজিদ সংলগ্ন একটি বাড়িতে। রাতে সেখানেও আমাকে কিছু খাওয়ানো হয়। এরপর আমি কিছুটা অচেতন হয়ে পড়ি। সেখানেও দুই ব্যক্তি আমাকে ধর্ষণ করে, আমি অসুস্থ হয়ে পড়ি। আমাকে ওরা স্যালাইন খাওয়ায়। তবে আমার অবস্থা খারাপ হতে দেখে মঙ্গলবার সকালে বাড়ির সামনে ফেলে রেখে যায়।

তিনি বলেন, যারা আমার সঙ্গে খারাপ আচরণ করেছে তাদের নাম আমি জানি না। তবে দেখলে চিনতে পারবো। যে বাড়িতে রাখা হয়েছিল সেটাও আমি চিনবো। একজন লোক একটু বয়স্ক, মুখে দাড়ি আছে। আমার সঙ্গে যে অমানবিক অত্যাচার করা হয়েছে তার দৃষ্টান্তমূলক বিচারের দাবি জানাই।

ওই তরুণীর বাবা বলেন, কয়েকদিন আগেই মেয়ে শ্বশুরবাড়ি থেকে আমার বাড়ি আসে। এরপরই এ রকম ঘটনা ঘটলো। রোজিনা ও তার মা পারুল এর আগেও অনেক মেয়ের জীবন শেষ করে দিয়েছে। আমার মেয়ের তিন বছরের সন্তান রয়েছে। স্বামী-শ্বশুরবাড়ির লোকজনের কাছে মুখ দেখাবো কি করে। এ ঘটনার সঙ্গে যারা জড়িত তাদের আইনের আওতায় আনার দাবি জানাই। এ ঘটনায় থানায় অভিযোগ দেবো।

ফরিদপুর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. আব্দুর রহমান ফিরোজ বলেন, বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা মেয়েটির চিকিৎসা করছেন। সন্ধ্যায় ফরেনসিক বিভাগে পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য পাঠানো হবে। সেখান থেকে ওসিসিতে পাঠানো হতে পারে। পরীক্ষার রিপোর্ট হাতে পেলেই বিস্তারিত জানানো যাবে।

মধুখালী থানা পুলিশের পরিদর্শক (তদন্ত) রথিন্দ্র নাথ তরফদার বলেন, ঘটনাটি জানতে পেরে তাৎক্ষণিক সেখানে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য রোজিনা ও তার মা পারুল আক্তারকে থানায় আনা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, হাসপাতালে মেয়েটিকে দেখতে গিয়েছিলাম, সে খুব অসুস্থ। সুস্থতার পর বিস্তারিত শুনে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এখন পর্যন্ত মেয়েটির বাবার অভিযোগ হাতে পাইনি। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানান তিনি।

 

/টিটি/

সম্পর্কিত

সাফারি পার্ক থেকে পালিয়ে যাওয়া নীলগাই মিললো মধুপুর বনাঞ্চলে

সাফারি পার্ক থেকে পালিয়ে যাওয়া নীলগাই মিললো মধুপুর বনাঞ্চলে

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে বাড়ছে ব্লু ওয়াইল্ডবিস্টের সংখ্যা

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে বাড়ছে ব্লু ওয়াইল্ডবিস্টের সংখ্যা

এবারও ঈদ জামাত হচ্ছে না শোলাকিয়ায়

এবারও ঈদ জামাত হচ্ছে না শোলাকিয়ায়

পদ্মায় ১৩ ট্রলার চালককে জরিমানা

পদ্মায় ১৩ ট্রলার চালককে জরিমানা

ঈদের সময় ছয় দিন গ্যাসের চাপ কম থাকবে যেসব এলাকায়

ঈদের সময় ছয় দিন গ্যাসের চাপ কম থাকবে যেসব এলাকায়

বেশি ভাড়ায় বিকল্প যানে বাড়ি ফিরছেন ১৭ জেলার মানুষ

ঢাকা-চট্টগ্রাম ও ঢাকা-সিলেট মহাসড়কবেশি ভাড়ায় বিকল্প যানে বাড়ি ফিরছেন ১৭ জেলার মানুষ

ছুটি বাড়ানোর দাবিতে বিক্ষোভ, শ্রমিক-পুলিশ সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ ২০

ছুটি বাড়ানোর দাবিতে বিক্ষোভ, শ্রমিক-পুলিশ সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ ২০

তাদের টার্গেট ঘরমুখো মানুষ

তাদের টার্গেট ঘরমুখো মানুষ

বাসচাপায় প্রাণ গেলো মোটরসাইকেলের ২ আরোহীর

বাসচাপায় প্রাণ গেলো মোটরসাইকেলের ২ আরোহীর

মোবাইল কেড়ে নেওয়ায় কিশোরীর আত্মহত্যা

মোবাইল কেড়ে নেওয়ায় কিশোরীর আত্মহত্যা

২৪ ঘণ্টায় ৩২ হাজার যানবাহন পারাপার

২৪ ঘণ্টায় ৩২ হাজার যানবাহন পারাপার

ঢাকা-টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কে যানবাহনের বাড়তি চাপ

ঢাকা-টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কে যানবাহনের বাড়তি চাপ

সর্বশেষ

আহত গার্মেন্টস শ্রমিককে হাসপাতালে দেখতে গেলেন শ্রম প্রতিমন্ত্রী

আহত গার্মেন্টস শ্রমিককে হাসপাতালে দেখতে গেলেন শ্রম প্রতিমন্ত্রী

ভ্যাকসিন ছাড়া সৌদি আরব গেলে নিজ খরচে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিন

ভ্যাকসিন ছাড়া সৌদি আরব গেলে নিজ খরচে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিন

নিজের স্বপ্নপুরুষের সঙ্গে কয়েক জন্মের তফাতে জুলেখার মিলন

নিজের স্বপ্নপুরুষের সঙ্গে কয়েক জন্মের তফাতে জুলেখার মিলন

অবিশ্বাস্য গল্প বলেছি বিশ্বাসযোগ্য ভঙ্গিতে : রাশিদা সুলতানা

অবিশ্বাস্য গল্প বলেছি বিশ্বাসযোগ্য ভঙ্গিতে : রাশিদা সুলতানা

উপকূলের আঁধার কাটালো সৌরবাতি

ডিজিটাল উপকূল- ১উপকূলের আঁধার কাটালো সৌরবাতি

মালয়েশিয়ায় পাচারের সময় ৬ রোহিঙ্গা নারী-শিশু উদ্ধার, আটক ১

মালয়েশিয়ায় পাচারের সময় ৬ রোহিঙ্গা নারী-শিশু উদ্ধার, আটক ১

বার্সা-রিয়াল জোটে থাকলে বাদ রোনালদোরা

বার্সা-রিয়াল জোটে থাকলে বাদ রোনালদোরা

এআইইউবি-তে ৫জি প্রযুক্তি বিষয়ে ওয়েবিনার 

এআইইউবি-তে ৫জি প্রযুক্তি বিষয়ে ওয়েবিনার 

স্বাস্থ্যবিধি না মানায় বিপণিবিতান ও সড়কে জরিমানা

স্বাস্থ্যবিধি না মানায় বিপণিবিতান ও সড়কে জরিমানা

বরিশাল সিটি করপোরেশনের উদ্যোগে নির্মিত হচ্ছে ‘ইমাম ভবন’

বরিশাল সিটি করপোরেশনের উদ্যোগে নির্মিত হচ্ছে ‘ইমাম ভবন’

নিঃসঙ্গ জীবনের গল্প

নিঃসঙ্গ জীবনের গল্প

লকডাউন
সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সাফারি পার্ক থেকে পালিয়ে যাওয়া নীলগাই মিললো মধুপুর বনাঞ্চলে

সাফারি পার্ক থেকে পালিয়ে যাওয়া নীলগাই মিললো মধুপুর বনাঞ্চলে

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে বাড়ছে ব্লু ওয়াইল্ডবিস্টের সংখ্যা

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে বাড়ছে ব্লু ওয়াইল্ডবিস্টের সংখ্যা

এবারও ঈদ জামাত হচ্ছে না শোলাকিয়ায়

এবারও ঈদ জামাত হচ্ছে না শোলাকিয়ায়

পদ্মায় ১৩ ট্রলার চালককে জরিমানা

পদ্মায় ১৩ ট্রলার চালককে জরিমানা

বেশি ভাড়ায় বিকল্প যানে বাড়ি ফিরছেন ১৭ জেলার মানুষ

ঢাকা-চট্টগ্রাম ও ঢাকা-সিলেট মহাসড়কবেশি ভাড়ায় বিকল্প যানে বাড়ি ফিরছেন ১৭ জেলার মানুষ

ছুটি বাড়ানোর দাবিতে বিক্ষোভ, শ্রমিক-পুলিশ সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ ২০

ছুটি বাড়ানোর দাবিতে বিক্ষোভ, শ্রমিক-পুলিশ সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ ২০

তাদের টার্গেট ঘরমুখো মানুষ

তাদের টার্গেট ঘরমুখো মানুষ

বাসচাপায় প্রাণ গেলো মোটরসাইকেলের ২ আরোহীর

বাসচাপায় প্রাণ গেলো মোটরসাইকেলের ২ আরোহীর

মোবাইল কেড়ে নেওয়ায় কিশোরীর আত্মহত্যা

মোবাইল কেড়ে নেওয়ায় কিশোরীর আত্মহত্যা

২৪ ঘণ্টায় ৩২ হাজার যানবাহন পারাপার

২৪ ঘণ্টায় ৩২ হাজার যানবাহন পারাপার

© 2021 Bangla Tribune