X
বৃহস্পতিবার, ২৯ জুলাই ২০২১, ১৪ শ্রাবণ ১৪২৮

সেকশনস

বেলারুশের ওপর যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ও কানডাসহ ইইউ’র নিষেধাজ্ঞা

আপডেট : ২৩ জুন ২০২১, ০০:০২

মানবাধিকার লঙ্ঘন, মৌলিক স্বাধীনতা হরণ এবং আন্তর্জাতিক আইনকে আক্রমণ করায় বেলারুশের ওপর নিষেধাজ্ঞা দিলো যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, কানাডাসহ ইউরোপীয় ইউনিয়ন-ইইউ। একই সঙ্গে মিনস্ককে নিজ দেশের নাগিরকদের দমন-পীড়ন বন্ধ করতে আহ্বান জানানো হয়। সোমবার এক যৌথ বিবৃতিতে এ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হলো।

বিবৃতিতে বেলারুশের প্রেসিডেন্ট আলেক্সান্ডার লুকাশেনকোর সরকারের বিরুদ্ধ নানা অভিযোগ তুলে ধরা হয়। নিজ দেশের নাগরিকদের ওপর সহিংসতা, নিপীড়ন, রায়ানএয়ারের বাণিজ্যিক ফ্লাইট জোর করে অবতরণ করানো এবং সাংবাদিক প্রোতেসেভিচকে গ্রেপ্তারের জবাবে এমন পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। ’

ইইউ জানিয়েছে, বেলারুশের প্রতিরক্ষা এবং পরিবহন মন্ত্রী বিমান বাহিনীর কমান্ডার, বিচারক ও আইনপ্রণেতাদের পাশাপাশি ৭৮ জনের সম্পত্তি জব্দ করা হয়েছে। সেই সঙ্গে ভ্রমণেও নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়। সব মিলিয়ে বেলারুশের একশ ৬৬ ব্যক্তির ওপর ইইউ’র বিধিনিষেধ রয়েছে।

ইইউ'র পররাষ্ট্র বিষয়ক প্রধান জোসেপ বোরেল্লে জানান, অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞার কারণে বেলারুশ অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে।

গত ২৩ মে গ্রিস থেকে লিথুয়ানিয়াগামী রায়ানএয়ারের একটি বিমানকে মাঝপথে কৌশলে মিনস্কে নামতে বাধ্য করে সাংবাদিক রোমান প্রোতাসেভিচকে (২৬) গ্রেফতার করে বেলারুশ। ভিন্নমতালম্বী ওই সাংবাদিককে গ্রেফতার করতেই ইউরোপের অভ্যন্তরীণ এই ফ্লাইটকে মিনস্কে নামতে বাধ্য করা হয়। পশ্চিমা দেশগুলোর অভিযোগ বেলারুশ বিমান ছিনতাই করেছে। এরপরই ইউরোপের এয়ারলাইন্সগুলো বেলারুশের আকাশসীমা ব্যবহার না করার সিদ্ধান্ত নেয়। একই সঙ্গে বেলারুশের এয়ারলাইন্সগুলোকে ইউরোপের আকাশসীমা ব্যবহার করতে না দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়। 

এছাড়াও গত বছরের নির্বাচনে বিরোধীদলগুলোর ওপর দমন-পীড়নের অভিযোগ রয়েছে বেলারুশের বর্তমান সরকারের বিরুদ্ধে।

/এলকে/

সম্পর্কিত

ভূমিকম্পের পর আলাস্কা-হাওয়াইতে সুনামির সতর্কতা

ভূমিকম্পের পর আলাস্কা-হাওয়াইতে সুনামির সতর্কতা

আফগানিস্তান নিয়ে চীনের আগ্রহ ইতিবাচক: যুক্তরাষ্ট্র

আফগানিস্তান নিয়ে চীনের আগ্রহ ইতিবাচক: যুক্তরাষ্ট্র

বলপূর্বক কাবুল দখল করলে তালেবান স্বীকৃতি পাবে না: যুক্তরাষ্ট্র

বলপূর্বক কাবুল দখল করলে তালেবান স্বীকৃতি পাবে না: যুক্তরাষ্ট্র

রাজনীতি ছাড়ছেন ট্রাম্পের জামাই

রাজনীতি ছাড়ছেন ট্রাম্পের জামাই

বাগদাদে মার্কিন দূতাবাসের কাছে রকেট হামলা

আপডেট : ২৯ জুলাই ২০২১, ২১:০০
image

ইরাকের রাজধানী বাগদাদের সুরক্ষিত গ্রিন জোনে মার্কিন দূতাবাসের কাছে রকেট হামলা হয়েছে। বৃহস্পতিবার ভোরে এই হামলা চালানো হয়। তবে এতে কেউ হতাহত বা কোনও ক্ষয়ক্ষতি হয়নি। ফরাসি বার্তা সংস্থা এএফপি জানিয়েছে, ইরাকি প্রধানমন্ত্রী মুস্তফা আল-খাদিমি ওয়াশিংটন সফর থেকে ফেরার দিনেই এই হামলার ঘটনা ঘটলো।

গত সোমবার মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে হোয়াইট হাউজে সাক্ষাৎ করেন ইরাকের প্রধানমন্ত্রী মুস্তফা আল-খাদিমি। ওই বৈঠকে ইরাক থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন বাইডেন।

গত কয়েক মাস ধরে নিয়মিতভাবে ইরাকে মার্কিন স্বার্থে হামলা অব্যাহত রয়েছে। এসব হামলার জন্য ইরান সমর্থিত বিভিন্ন গোষ্ঠীকে দায়ী করে আসছে নিরাপত্তা সংস্থাগুলো। তবে আল-খাদেমির ওয়াশিংটন সফরের আগে এসব হামলার পরিমাণ কমে আসে।

ইরাকের এক ঊর্ধ্বতস নিরাপত্তা কর্মকর্তা জানিয়েছেন, বৃহস্পতিবার চালানো হামলায় রকেট দুইটি বাগদাদের পূর্বাঞ্চলের শিয়া অধ্যুষিত একটি এলাকা থেকে ছোড়া হয়েছে। প্রাথমিক তদন্তে মনে হচ্ছে এগুলো যুক্তরাষ্ট্রের দূতাবাস লক্ষ্য করে ছোড়া হয়েছিল, তবে ‘টার্গেটে’ পৌঁছাতে পারেনি। একটি রকেট গ্রিন জোনের ভেতরের পার্কিং লটে আঘাত হেনেছে, অন্যটি পড়েছে কাছাকাছি একটি খালি জায়গায়।

এই মাসের শুরুতে ইরাক ও সিরিয়ায় মার্কিন কূটনীতিক ও বাহিনীর সদস্যদের ওপর তিন দফা রকেট ও ড্রোন হামলা হয়। এর মধ্যে এক হামলায় একটি বিমান ঘাঁটিতে ১৪টি রকেট আছড়ে পড়ে দুই মার্কিন সেনা আহতও হয়।

কোনো গোষ্ঠী বৃহস্পতিবারের হামলার দায় স্বীকার না করলেও ইরান সমর্থিত গোষ্ঠী এ রকেট হামলার পেছনে থাকতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

/জেজে/

সম্পর্কিত

প্রথমবারের মতো কাতারে অনুষ্ঠিত হবে আইনসভার নির্বাচন

প্রথমবারের মতো কাতারে অনুষ্ঠিত হবে আইনসভার নির্বাচন

চুরি হওয়া প্রত্ন নিদর্শন ইরাককে ফিরিয়ে দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

চুরি হওয়া প্রত্ন নিদর্শন ইরাককে ফিরিয়ে দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

ইসরায়েলি কাস্টডিতে ফিলিস্তিনিকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ

ইসরায়েলি কাস্টডিতে ফিলিস্তিনিকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ

প্রথমবারের মতো কাতারে অনুষ্ঠিত হবে আইনসভার নির্বাচন

আপডেট : ২৯ জুলাই ২০২১, ২০:১৭
image

কাতারে প্রথমবারের মতো অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে আইনসভার নির্বাচন। দেশটির আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল থানি এই সংক্রান্ত একটি আইনের অনুমোদন দিয়েছেন। বৃহস্পতিবার তার কার্যালয় থেকে জানানো হয়েছে, আগামী অক্টোবরে এই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

নতুন অনুমোদিত আইন অনুযায়ী ৪৫ সদস্যের শুরা কাউন্সিলের ৩০ সদস্য নির্বাচিত হবেন। বাকি এক তৃতীয়াংশ সদস্য মনোনীত করা অব্যাহত রাখবেন দেশটির আমির। মনোনীত ও নির্বাচিত সদস্যদের অধিকার ও দায়িত্ব একই থাকবে। তারা সরকারের সাধারণ নীতি ও বাজেট অনুমোদন করবেন। এছাড়াও নির্বাহী কর্তৃপক্ষের উপর তাদের নিয়ন্ত্রণ থাকবে।

কাতারের শুরা কাউন্সিলের সদস্যরা জনগণ সংক্রান্ত ইস্যুতে প্রস্তাব সরকারকে দিতে পারবে। কাতারের আমিরের কার্যালয়ের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, শুরা কাউন্সিলের নির্বাচন নাগরিকদের অংশগ্রহণ নিশ্চিতের লক্ষ্যে একটি গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ।

কাতারের প্রধানমন্ত্রী শেখ খালিদ বিন খলিফা আল থানি জানিয়েছেন, পুরো দেশকে ৩০টি নির্বাচনি জেলায় ভাগ করা হবে। প্রতিটি জেলা থেকে একজন করে প্রতিনিধি নির্বাচিত হবেন।

নতুন আইন অনুযায়ী ১৮ বছরের বেশি বয়সী কাতারের সব নাগরিক ভোট দিতে পারবেন। তবে যেসব নাগরিকের দাদার জন্ম কাতারে হয়নি তারা ভোট দিতে পারবেন না। প্রার্থীকে অবশ্যই কাতারি বংশোদ্ভূত এবং অন্তত ৩০ বছর বয়সী হতে হবে।

কাতারে এখনই মিউনিসিপ্যাল নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়ে থাকে। তবে দেশটিতে সব রাজনৈতিক দল নিষিদ্ধ। ২০০৩ সালে গণভোটের মাধ্যমে অনুমোদিত হয় দেশটির নতুন সংবিধান।

/জেজে/

সম্পর্কিত

বাগদাদে মার্কিন দূতাবাসের কাছে রকেট হামলা

বাগদাদে মার্কিন দূতাবাসের কাছে রকেট হামলা

চুরি হওয়া প্রত্ন নিদর্শন ইরাককে ফিরিয়ে দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

চুরি হওয়া প্রত্ন নিদর্শন ইরাককে ফিরিয়ে দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

ইসরায়েলি কাস্টডিতে ফিলিস্তিনিকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ

ইসরায়েলি কাস্টডিতে ফিলিস্তিনিকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ

ইসরায়েলি এজেন্ট আটকের দাবি ইরানের, অস্ত্র উদ্ধার

ইসরায়েলি এজেন্ট আটকের দাবি ইরানের, অস্ত্র উদ্ধার

বিমানবন্দরেই করোনার বিশাল হাসপাতাল

আপডেট : ২৯ জুলাই ২০২১, ২০:১৭

সংকট কাটিয়ে উঠতে বিমানবন্দরের গুদাম ঘরকে বিশাল হাসপাতালে পরিণত করেছে থাইল্যান্ড। রাজধানীর একটি বিমানবন্দরের গুদাম হাউজে ১৮শ’ শয্যার অস্থায়ী হাসপাতাল গড়ে নজির স্থাপন করেছে দেশটি। বৃহস্পতিবার ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য গার্ডিয়ানের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা গেছে।

করোনার ধাক্কায় থমকে গেছে থাইল্যান্ডের জনজীবন। অনেকেই থাইল্যান্ডকে করোনার কেন্দ্রবিন্দু বলছে। ডেল্টার প্রকোপসহ স্থানীয় ভ্যারিয়েন্টেও আক্রান্ত হচ্ছেন বহু মানুষ। হাসপাতালগুলোতে রোগীদের তিল ধারণের ঠাঁই নেই। বেডের জন্য এক হাসপাতাল থেকে অন্য হাসপাতালে ছুটছেন আক্রান্তরা। ভেঙে পড়েছে স্বাস্থ্য ব্যবস্থা।

করোনায় আক্রান্ত রোগীদের চাপ সামাল দিতে ব্যাংককের ডন মুয়াং আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আঠারশো শয্যার একটি ফিল্ড হাসপাতাল গড়ে তুলেছে সরকার। এতে পর্যাপ্ত রোগী সেবা পাবে বলে আশা করা যাচ্ছে।

হাসপাতালের পরিচালক রেইনথং নান্না জানান, ফিল্ড হাসপাতাল একসঙ্গে অনেক রোগী চিকিৎসা নিতে পারবেন। যেসব রোগীর অবস্থা স্থিতিশীল তাদের এখানে চিকিৎসা দেওয়া হবে। যাদের অবস্থা আশঙ্কাজনক তাদের অন্য হাসপাতালে স্থানান্তর করা হবে।

থাইল্যান্ডে টিকা সংকটের কারণে মাত্র ৫ শতাংশ মানুষকে পুরোপুরি ভ্যাকসিনের আওতায় আনা গেছে। ফলে সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে আনা কঠিন হয়ে পড়ছে। দেশটিতে এখন পর্যন্ত প্রায় সাড়ে ৪ হাজার মানুষ কোভিডে মারা গেছেন।

/এলকে/

সম্পর্কিত

করোনার আঁতুড়ঘর চীনেই ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের প্রকোপ

করোনার আঁতুড়ঘর চীনেই ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের প্রকোপ

করোনায় মৃতের সংখ্যা ৪২ লাখ ছাড়িয়েছে

করোনায় মৃতের সংখ্যা ৪২ লাখ ছাড়িয়েছে

করোনা কবলিত মালয়েশিয়ায় বিধিনিষেধ শিথিলে ক্ষোভ

করোনা কবলিত মালয়েশিয়ায় বিধিনিষেধ শিথিলে ক্ষোভ

বিধিনিষেধ শিথিলে ভ্যাকসিন প্রতিরোধী স্ট্রেইন-এর আশঙ্কা: গবেষণা

বিধিনিষেধ শিথিলে ভ্যাকসিন প্রতিরোধী স্ট্রেইন-এর আশঙ্কা: গবেষণা

'ইতিহাসের চরম বিতর্কিত অধ্যায় শেষ হোক': অস্ট্রেলিয়া

আপডেট : ২৯ জুলাই ২০২১, ১৯:০৩

চুরি যাওয়া ১৪টি মূল্যবান প্রত্ন সামগ্রী অবশেষে ভারতকে ফিরিয়ে দিচ্ছে অস্ট্রেলিয়া। প্রাচীন সম্পদগুলো অধিকাংশই চুরি যাওয়া অথবা চোরাচালানকারীদের হাত ঘুরে বিদেশে পাচার হয়। মহামূল্য প্রত্ন সম্পদ কীভাবে ভারত থেকে গায়েব হয় তা অজানাই রয়ে গেছে।

ভারত ও অস্ট্রেলিয়ার সৌহার্দ্যের সম্পর্কের অংশ হিসেবেই, কয়েকটি ভাস্কর্য, তৈলচিত্রসহ আরও কিছু জিনিস ফিরিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে অস্ট্রেলিয়ার ন্যাশানাল গ্যালারি কর্তৃপক্ষ।

রাজধানী ক্যানবেরা সংগ্রহশালার তরফ থেকে ১৪টি প্রাচীন সামগ্রী ভারতের হাতে তুলে দেওয়ার জন্য চিহ্নিত করা হয়েছে। সিডনির ন্যাশানল গ্যালারির পরিচালক নিক মিতজেভিচ জানিয়েছেন, আগামী একমাসের মধ্যে ভারত সরকারের হাতে তুলে দেবে স্কট মরিসন সরকার।

তিনি জানান, ‘ভারতীয়দের হারিয়ে যাওয়া সম্পদ ফিরিয়ে দিতে পারলে অনেকটা নিশ্চিন্ত হওয়া যাবে। ইতিহাসের অতি বিতর্কিত একটা অধ্যায়ের পরিসমাপ্তি চায় ন্যাশানাল গ্যালারি’। এই প্রত্ন শিল্পগুলোর দাম আনুমানিক ২২ লাখ মার্কিন ডলার।

মিতজেভিচ আরও জানান, একটি দেশ থেকে চুরি করে আনা সম্পদ, অন্য একটি দেশের সংগ্রহশালার শোভা বর্ধন করবে, তা কোনও রাষ্ট্রের কাছেই কাম্য নয়। 

/এলকে/

সম্পর্কিত

শুধু শুধু বিরক্ত করায় যুবককে পিষে দিলো হাতি (ভিডিও)

শুধু শুধু বিরক্ত করায় যুবককে পিষে দিলো হাতি (ভিডিও)

আমি লিডার নই, ক্যাডার: দিল্লিতে মমতা

আমি লিডার নই, ক্যাডার: দিল্লিতে মমতা

আমি জ্যোতিষী নই: মমতা

আমি জ্যোতিষী নই: মমতা

মোদির কাছে পশ্চিমবঙ্গের নাম বদলের কথা তুললেন মমতা

মোদির কাছে পশ্চিমবঙ্গের নাম বদলের কথা তুললেন মমতা

আজেরি সীমান্তে রুশ সেনা চায় আর্মেনিয়া

আপডেট : ২৯ জুলাই ২০২১, ২০:৫১
image

আজারবাইজান-আর্মেনিয়া সীমান্তে নতুন করে উত্তেজনা বাড়ায় সেখানে রুশ সেনা মোতায়েনের প্রস্তাব দিয়েছেন আর্মেনিয়ার প্রধানমন্ত্রী নিকোল পাশিনিয়ান। বৃহস্পতিবার এই প্রস্তাব দেন তিনি। এর আগে পরস্পরের বিরুদ্ধে যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘনের অভিযোগ এনেছে আর্মেনিয়া ও আজারবাইজান। কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরার প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

রাশিয়ার মধ্যস্থতায় গত বছর সেপ্টেম্বরে শুরু হওয়া আজারবাইজান ও আর্মেনিয়ার সংঘাতের অবসান ঘটলেও নতুন করে সংঘাতে জড়িয়েছে দেশ দুটি। বুধবার আর্মেনিয়া দাবি করেছে, আজেরি বাহিনী আকস্মিক তাদের সেনাদের ওপর হামলা চালিয়েছে। এতে তাদের তিন সেনা প্রাণ হারিয়েছেন। আহত হন আরও দু’জন। সীমান্ত এলাকায় সংঘাতে জড়ানোর অভিযোগ তোলে দেশটি। সামরিক উত্তেজনা সৃষ্টিতে একে অপরকে দায়ী করেছে উভয় দেশ।

বৃহস্পতিবার এক সরকারি বৈঠকে আর্মেনিয়ার প্রধানমন্ত্রী নিকোল পাশিনিয়ান বলেন, ‘বর্তমান পরিস্থিতির আলোকে আমার মনে হয় আর্মেনিয়ান-আজেরি সীমান্তের পুরো অঞ্চলে রাশিয়ার সীমান্তরক্ষীদের মোতায়েনের প্রশ্নটি বিবেচনা করা যেতে পারে।’

নিকোল পাশিনিয়ান জানান, বিষয়টি নিয়ে মস্কোর সঙ্গে আলোচনা শুরুর প্রস্তুতি নিচ্ছেন তিনি। আর এটি বাস্তবায়িত হলে সামরিক সংঘাত ছাড়াই সীমান্ত বিরোধ নিষ্পত্তি করা যাবে বলে আশা প্রকাশ করেন আর্মেনিয়ার প্রধানমন্ত্রী।

উল্লেখ্য, নাগোরনো-কারাবাখ অঞ্চল নিয়ে আর্মেনিয়া ও আজারবাইজানের পুরনো সংঘাত গত বছরের ২৭ সেপ্টেম্বর থেকে নতুন করে আবার শুরু হয়। রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন জানান, ওই সংঘাতে অন্তত পাঁচ হাজার মানুষ নিহত হয়েছেন। পরে নভেম্বরে রাশিয়ার মধ্যস্থতায় যুদ্ধ বন্ধে উপনীত হয় দুই দেশ।

/জেজে/এমওএফ/

সম্পর্কিত

আফগানিস্তান নিয়ে চীনের আগ্রহ ইতিবাচক: যুক্তরাষ্ট্র

আফগানিস্তান নিয়ে চীনের আগ্রহ ইতিবাচক: যুক্তরাষ্ট্র

শুধু শুধু বিরক্ত করায় যুবককে পিষে দিলো হাতি (ভিডিও)

শুধু শুধু বিরক্ত করায় যুবককে পিষে দিলো হাতি (ভিডিও)

আমি লিডার নই, ক্যাডার: দিল্লিতে মমতা

আমি লিডার নই, ক্যাডার: দিল্লিতে মমতা

আফগানিস্তানের মাটি চীনের বিরুদ্ধে ব্যবহার করতে দেওয়া হবে না: তালেবান

আফগানিস্তানের মাটি চীনের বিরুদ্ধে ব্যবহার করতে দেওয়া হবে না: তালেবান

সর্বশেষ

শ্রমিক ছাঁটাই এবং কারখানা লে-অফ ঘোষণা না করার অনুরোধ

শ্রমিক ছাঁটাই এবং কারখানা লে-অফ ঘোষণা না করার অনুরোধ

বাগদাদে মার্কিন দূতাবাসের কাছে রকেট হামলা

বাগদাদে মার্কিন দূতাবাসের কাছে রকেট হামলা

সিনোফার্মের আরও ৩০ লাখ ডোজ টিকা আসছে রাতে

সিনোফার্মের আরও ৩০ লাখ ডোজ টিকা আসছে রাতে

পিপিপি কনসেপ্ট আমরা এখনও ভালোভাবে নিতে পারিনি: অর্থমন্ত্রী

পিপিপি কনসেপ্ট আমরা এখনও ভালোভাবে নিতে পারিনি: অর্থমন্ত্রী

এবার অভিযুক্ত নির্মাতা বান্নাহ, চাইলেন ক্ষমা

এবার অভিযুক্ত নির্মাতা বান্নাহ, চাইলেন ক্ষমা

জনদুর্ভোগ কমাতে এসিল্যান্ডদের নির্দেশ দিয়ে পরিপত্র জারি

জনদুর্ভোগ কমাতে এসিল্যান্ডদের নির্দেশ দিয়ে পরিপত্র জারি

১৯ আগস্টের মধ্যে এসএসসির অ্যাসাইনমেন্টের তথ্য পাঠানোর নির্দেশ

১৯ আগস্টের মধ্যে এসএসসির অ্যাসাইনমেন্টের তথ্য পাঠানোর নির্দেশ

সরকারি ৮ হাসপাতালের আইসিইউতে বেড ফাঁকা নেই

সরকারি ৮ হাসপাতালের আইসিইউতে বেড ফাঁকা নেই

প্রথমবারের মতো কাতারে অনুষ্ঠিত হবে আইনসভার নির্বাচন

প্রথমবারের মতো কাতারে অনুষ্ঠিত হবে আইনসভার নির্বাচন

৭১ বছরের বৃদ্ধের সঙ্গে বিয়ে দেওয়ায় তরুণীর আত্মহত্যা

৭১ বছরের বৃদ্ধের সঙ্গে বিয়ে দেওয়ায় তরুণীর আত্মহত্যা

সুন্দরবন যেমন আছে তেমনই থাকতে দিন: সুলতানা কামাল

সুন্দরবন যেমন আছে তেমনই থাকতে দিন: সুলতানা কামাল

কুমিল্লায় লকডাউনের ছয় দিনে ১২ লাখ টাকা জরিমানা আদায় 

কুমিল্লায় লকডাউনের ছয় দিনে ১২ লাখ টাকা জরিমানা আদায় 

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ভূমিকম্পের পর আলাস্কা-হাওয়াইতে সুনামির সতর্কতা

ভূমিকম্পের পর আলাস্কা-হাওয়াইতে সুনামির সতর্কতা

আফগানিস্তান নিয়ে চীনের আগ্রহ ইতিবাচক: যুক্তরাষ্ট্র

আফগানিস্তান নিয়ে চীনের আগ্রহ ইতিবাচক: যুক্তরাষ্ট্র

বলপূর্বক কাবুল দখল করলে তালেবান স্বীকৃতি পাবে না: যুক্তরাষ্ট্র

বলপূর্বক কাবুল দখল করলে তালেবান স্বীকৃতি পাবে না: যুক্তরাষ্ট্র

রাজনীতি ছাড়ছেন ট্রাম্পের জামাই

রাজনীতি ছাড়ছেন ট্রাম্পের জামাই

চুরি হওয়া প্রত্ন নিদর্শন ইরাককে ফিরিয়ে দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

চুরি হওয়া প্রত্ন নিদর্শন ইরাককে ফিরিয়ে দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

চীনের চাঞ্চল্যকর তথ্য ফাঁস করলো যুক্তরাষ্ট্র

চীনের চাঞ্চল্যকর তথ্য ফাঁস করলো যুক্তরাষ্ট্র

এক ঘুমে হারিয়ে গেলো দুই দশক!

এক ঘুমে হারিয়ে গেলো দুই দশক!

ক্যাপিটলে হামলার লোমহর্ষক বর্ণনা দিলেন ৪ পুলিশ সদস্য

ক্যাপিটলে হামলার লোমহর্ষক বর্ণনা দিলেন ৪ পুলিশ সদস্য

টিকা নিলেও সংক্রমণ ছড়ানোর আশঙ্কা, মাস্ক পরার পরামর্শ সিডিসি’র

টিকা নিলেও সংক্রমণ ছড়ানোর আশঙ্কা, মাস্ক পরার পরামর্শ সিডিসি’র

১৫ হাজার বছর পুরনো ভাইরাসের সন্ধান

১৫ হাজার বছর পুরনো ভাইরাসের সন্ধান

© 2021 Bangla Tribune