X
মঙ্গলবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

সেকশনস

রূপসায় মন্দির-বাড়ি ও দোকানে হামলা

আপডেট : ০৮ আগস্ট ২০২১, ১০:১৭

খুলনার রূপসা উপজেলার শিয়ালি গ্রামে চারটি মন্দির, ছয়টি দোকান এবং দুই বাড়িতে হামলা চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা। এ ঘটনায় এলাকায় চাপা উত্তেজনা বিরাজ করছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, শেখপুরা, বামনডাঙ্গা এবং চাঁদপুর এলাকার শতাধিক যুবক সংঘবদ্ধভাবে শনিবার সন্ধ্যায় শিয়ালি মহাশ্মশান মন্দিরে হামলা চালায়। তারা সেখানকার সব প্রতিমা এবং শ্মশানের যাবতীয় উপকরণ ভাঙচুর করে। এরপর তারা শিয়ালি পূর্বপাড়া এলাকায় হামলা চালায়। এসময় পূর্বপাড়ার হরি মন্দির, শিয়ালি পূর্বপাড়া দূর্গা মন্দির এবং শিবপদ ধরের গোবিন্দ মন্দিরের সব প্রতিমা ভাঙচুর করা হয়। 

দুর্বৃত্তরা শিবপদ ধরের বাড়িতেও হামলা চালায়। এরপর হামলাকারীরা বলাই মল্লিকের দোকান ও বাড়ি, অনির্বাণ হীরার চায়ের দোকান, প্রিতম মজুমদারের মেশিনারিজের দোকান, গনেশ মল্লিকের ওষুধের দোকান, শ্রীবাস মল্লিকের মুদি দোকান এবং সৌরভ মল্লিকের মুদি দোকান ভাঙচুর ও লুটপাট চালায় সবলে অভিযোগ উঠেছে। 

ঘটনার পর উপজেলা নির্বাহী অফিসার রুবাইয়া তাছনিম, সহকারী কমিশনার (ভূমি) খান মাসুম বিল্লাহ, রূপসা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সরদার মোশাররফ হোসেন, ইউপি চেয়ারম্যান সাধন অধিকারী, পূজা উদযাপন পরিষদ রূপসা উপজেলার সভাপতি শক্তিপদ বসু, সাধারণ সম্পাদক কৃষ্ণ গোপাল সেন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

রূপসা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সরদার মোশাররফ হোসেন বলেন, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ সক্রিয় আছে। এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

পূজা উদযাপন পরিষদ রূপসা উপজেলার সাধারণ সম্পাদক কৃষ্ণ গোপাল সেন বলেন, হামলায় চারটি মন্দিরের ১০টি প্রতিমা ভাঙচুর হয়েছে। এলাকায় উত্তেজনাকর পরিস্থিতি বিরাজ করছে। প্রশাসনের পক্ষ থেকে সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে তৎপরতা রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, ৬ আগস্ট রাতে হিন্দু সম্প্রদায়ের নামসংকীর্তনে বাধা দেওয়াকে কেন্দ্র এ হামলার ঘটনা ঘটে। তবে হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকজন ইমামের ওপর কোনও হামলা করেনি। 

শিয়ালি পুরাতন জামে মসজিদের ইমাম হাফেজ মাওলানা নাজিম উদ্দিন বলেন, ৬ আগস্ট এশার নামাজ চলাকালে হিন্দু সম্প্রদায়ের পুরুষ ও নারী বাদ্যযন্ত্র নিয়ে মসজিদের সামনে গানবাজনা শুরু করেন। এ অবস্থায় বের হয়ে নামাজের সময় তাদের শব্দ না করার জন্য অনুরোধ করি। তখন এক হিন্দু ব্যক্তি আমাকে ধাক্কা দেন। এতে মুসল্লি ও হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকজনের মধ্যে বাগবিতণ্ডা ও হাতাহাতি হয়। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি স্বাভাবিক করে। রাতেই সে ঘটনা শেষ হয়। তবে ৭ আগস্টের কোনও ঘটনা সম্পর্কে তিনি কিছুই জানেন না বলে দাবি করেছেন।

উল্লেখ্য, গত ৬ আগস্ট রাতে শিয়ালি গ্রামের কয়েকজন পুরুষ ও নারী নামকীর্ত্তন করতে করতে শিয়ালি শ্মশান মন্দিরের দিকে যাচ্ছিলেন। এশার নামাজের সময় তারা শিয়ালি জামে মসজিদ এলাকায় পৌঁছান। এ অবস্থায় ইমাম বের হয়ে তাদের নামাজের সময় বাদ্যযন্ত্র বন্ধ করতে বলেন। এ ঘটনাকে ঘিরে দুই পক্ষের মধ্যে তাৎক্ষণিক বাগবিতণ্ডা হয়। পরে পুলিশের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি শান্ত হয়।

 

/টিটি/

সম্পর্কিত

মোটরসাইকেল না পেয়ে ইভ্যালির রাসেলের বিরুদ্ধে মামলা

মোটরসাইকেল না পেয়ে ইভ্যালির রাসেলের বিরুদ্ধে মামলা

মাদককারবারিরা প্রদীপকে ফাঁসিয়েছেন: রানা দাশগুপ্ত

মাদককারবারিরা প্রদীপকে ফাঁসিয়েছেন: রানা দাশগুপ্ত

করোনার টিকা নিয়ে ফেরার পথে মৃত্যু 

করোনার টিকা নিয়ে ফেরার পথে মৃত্যু 

নিজ কক্ষে ঝুলছিল ইমামের লাশ

নিজ কক্ষে ঝুলছিল ইমামের লাশ

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

মোটরসাইকেল না পেয়ে ইভ্যালির রাসেলের বিরুদ্ধে মামলা

মোটরসাইকেল না পেয়ে ইভ্যালির রাসেলের বিরুদ্ধে মামলা

মাদককারবারিরা প্রদীপকে ফাঁসিয়েছেন: রানা দাশগুপ্ত

মাদককারবারিরা প্রদীপকে ফাঁসিয়েছেন: রানা দাশগুপ্ত

করোনার টিকা নিয়ে ফেরার পথে মৃত্যু 

করোনার টিকা নিয়ে ফেরার পথে মৃত্যু 

নিজ কক্ষে ঝুলছিল ইমামের লাশ

নিজ কক্ষে ঝুলছিল ইমামের লাশ

টানা বৃষ্টিতে নষ্টের শঙ্কায় দুবলার চরের ৩ কোটি টাকার শুঁটকি

টানা বৃষ্টিতে নষ্টের শঙ্কায় দুবলার চরের ৩ কোটি টাকার শুঁটকি

জাওয়াদের প্রভাবে টানা বৃষ্টি, ভোগান্তিতে খেটে খাওয়া মানুষ

জাওয়াদের প্রভাবে টানা বৃষ্টি, ভোগান্তিতে খেটে খাওয়া মানুষ

কুয়েট শিক্ষক সেলিমের মরদেহ তুলে ময়নাতদন্তের আবেদন পুলিশের

কুয়েট শিক্ষক সেলিমের মরদেহ তুলে ময়নাতদন্তের আবেদন পুলিশের

শোকসভায় কাঁদলেন শিক্ষক সেলিমের স্ত্রী, চাইলেন নিরাপত্তা

শোকসভায় কাঁদলেন শিক্ষক সেলিমের স্ত্রী, চাইলেন নিরাপত্তা

৬ বছর পর রহস্য উদঘাটন, মায়ের প্রেমের বলি হলো সন্তান

৬ বছর পর রহস্য উদঘাটন, মায়ের প্রেমের বলি হলো সন্তান

জাওয়াদের প্রভাবে বাঁধ উপচে পানি ঢুকে ২ গ্রাম প্লাবিত

জাওয়াদের প্রভাবে বাঁধ উপচে পানি ঢুকে ২ গ্রাম প্লাবিত

সর্বশেষ

চিত্রনায়ক ইমনকে ডিবির জিজ্ঞাসাবাদ

চিত্রনায়ক ইমনকে ডিবির জিজ্ঞাসাবাদ

ডা. মুরাদ ছাত্রদলের প্রচার সম্পাদক ছিলেন, জানালেন সভাপতি-সম্পাদক

ডা. মুরাদ ছাত্রদলের প্রচার সম্পাদক ছিলেন, জানালেন সভাপতি-সম্পাদক

‘ছাত্রনেত্রীদের নিয়ে করা মন্তব্যগুলো বিকৃত মানসিকতার পরিচায়ক’

‘ছাত্রনেত্রীদের নিয়ে করা মন্তব্যগুলো বিকৃত মানসিকতার পরিচায়ক’

মুরাদ হাসানকে গ্রেফতারের দাবি এলডিপির

মুরাদ হাসানকে গ্রেফতারের দাবি এলডিপির

তিন বছরেও শেষ হয়নি মুজিব কিল্লার কাজ, বাড়ছে মেয়াদ

তিন বছরেও শেষ হয়নি মুজিব কিল্লার কাজ, বাড়ছে মেয়াদ

© 2021 Bangla Tribune