X
বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২
২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৯

এমপি জাফর আলমকে দুদকে আড়াই ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ

কক্সবাজার প্রতিনিধি
২০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৮:১৮আপডেট : ২০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৮:১৮

অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে দুদকের দেওয়া নোটিশের জবাব দিতে স্বশরীরে হাজির হয়েছেন চকরিয়া-পেকুয়া আসনের সংসদ সদস্য (এমপি) জাফর আলম ও তার স্ত্রী-সন্তানরা। এ সময় সংসদ সদস্য জাফর আলমকে টানা আড়াই ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ করেন দুদকের কর্মকর্তারা। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে গণমাধ্যমে কোনও বক্তব্য দেননি জাফর আলম।

মঙ্গলবার (২০ সেপ্টেম্বর) বেলা পৌনে ১২টার দিকে কক্সবাজার দুদক সমন্বিত জেলা কার্যালয়ে উপস্থিত হলে সংস্থাটির সহকারী পরিচালক মোহাম্মদ রিয়াজ উদ্দীন এমপি জাফর আলমকে টানা আড়াই ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ করেন।

দুদকের সহকারী পরিচালক মোহাম্মদ রিয়াজ উদ্দীন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

গত ২৪ আগস্ট দুদকের কক্সবাজার সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক অভিযুক্তদের আলাদা চিঠি পাঠান। চিঠিতে এমপি জাফর আলম, তার স্ত্রী শাহেদা বেগম, ছেলে তানভীর আহমেদ সিদ্দিকী তুহিন ও মেয়ে তানিয়া আফরিনকে ৪ সেপ্টেম্বর দুদক কক্সবাজার কার্যালয়ে হাজির হয়ে সম্পদের হিসাব দিতে বলা হয়েছিল। কিন্তু দলীয় কর্মসূচি থাকায় ৩ সেপ্টেম্বর সময় চেয়ে দুদকে চিঠি দিয়ে আবেদন করেন জাফর আলম। সেই আবেদনে তারা ২০ সেপ্টেম্বর বেলা ১১টায় দুদক কার্যালয়ে আসবেন বলে উল্লেখ করেন।

এরই পরিপ্রেক্ষিতে মঙ্গলবার বেলা পৌনে ১২টার দিকে অভিযুক্তরা দুদক কার্যালয়ে হাজির হন। প্রথমে এমপি জাফর এবং পরে এক একে তার স্ত্রী-সন্তানরা তাদের সম্পদের বিবরণী তুলে ধরেন। জাফর আলমকে আড়াই ঘণ্টা এবং তার স্ত্রী-সন্তানদের চার ঘণ্টা ধরে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

জিজ্ঞাসাবাদ শেষে দুদক কার্যালয় থেকে বের হয়ে দ্রুত গাড়িতে উঠে পড়েন তারা। এ সময় দুদকের করা অভিযোগের বিষয়ে এমপি জাফর কোনও মন্তব্য করতে রাজি হয়নি। তবে একটি বাক্যই বলেছেন, ‘শাক দিয়ে কখনও মাছ ঢাকা যায় না।’

দুদকের নোটিশে বলা হয়, এমপি জাফর আলমের ক্ষমতা ও প্রভাবকে কাজে লাগিয়ে স্ত্রী শাহেদা বেগম সরকারি জমি, চিংড়ি ঘের, জলমহাল দখল, মাদক কারবার, চাঁদাবাজি এবং অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করে বিক্রির মাধ্যমে কোটি কোটি টাকার অবৈধ সম্পদের মালিক হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। জাফর আলমের স্ত্রী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক হলেও দীর্ঘদিন কর্মক্ষেত্রে অনুপস্থিত থাকার বিষয়টিও নোটিশে তুলে ধরা হয়।

তবে এমপি জাফর আলম তার ফেসবুকে দেওয়া এক পোস্টে স্ত্রী ও সন্তানদের সম্পদের অনুসন্ধানকে ‘চিহ্নিত মহলের ষড়যন্ত্র’ দাবি করে বলেছেন, দুদকের তদন্তে তার পরিবার পূর্ণ সহযোগিতা করবে।

এর আগে, গত ২১ জুলাই দুদকের প্রধান কার্যালয়ের উপ-পরিচালক খান মো. মাজানুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এক স্মারকে এমপি জাফর আলমের স্ত্রী শাহেদা বেগমের সম্পদ তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়। ওই স্মারক সূত্রে উল্লেখ করা হয়, শাহেদা বেগমের বিরুদ্ধে সরকারি জমি দখল, মাদক ব্যবসা, চাঁদাবাজি এবং অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করে বিক্রির মাধ্যমে কোটি কোটি টাকার অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগ রয়েছে। এর পরিপ্রেক্ষিতে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য কক্সবাজার দুদক সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের উপ-পরিচালককে নির্দেশ দেওয়া হয়। এরই পরিপ্রেক্ষিতে এমপি তার পরিবারকে সম্পদের বিবরণ দিতে দুদকে ডাকা হয়েছে। দুদকের সহকারী পরিচালক মোহাম্মদ রিয়াজ উদ্দীনকে এমপি জাফর আলম এবং তার পরিবারের সম্পদের তদন্ত কর্মকর্তা নিয়োগ করা হয়েছে। তবে জাফর আলমকে জিজ্ঞাসাবাদ নিয়ে আজ (মঙ্গলবার) কক্সবাজার দুদক কর্মকর্তা সরাসরি কোনও বক্তব্য দেননি।

/এমএএ/
৮ ডিসেম্বর যেভাবে হানাদার মুক্ত হয় কুমিল্লা
৮ ডিসেম্বর যেভাবে হানাদার মুক্ত হয় কুমিল্লা
ইকুরিয়ার নিয়ে এলো ‘ইন্সটা পে’
ইকুরিয়ার নিয়ে এলো ‘ইন্সটা পে’
দুই নদীর অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদের আদেশ না মানায় ডিসি-ইউএনওকে তলব
দুই নদীর অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদের আদেশ না মানায় ডিসি-ইউএনওকে তলব
ব্যক্তিগত তথ্যকেন্দ্রিক বিজ্ঞাপন দেখানো নিষিদ্ধ হচ্ছে ফেসবুকে
ব্যক্তিগত তথ্যকেন্দ্রিক বিজ্ঞাপন দেখানো নিষিদ্ধ হচ্ছে ফেসবুকে
সর্বাধিক পঠিত
টানা কর্মসূচিতে যাচ্ছে বিএনপি
নয়াপল্টনে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষটানা কর্মসূচিতে যাচ্ছে বিএনপি
নিষেধাজ্ঞার জাল ভেদ করে কাতার কাঁপানো মিস ক্রোয়েশিয়া!
নিষেধাজ্ঞার জাল ভেদ করে কাতার কাঁপানো মিস ক্রোয়েশিয়া!
নয়াপল্টনে আর্জেন্টিনার জার্সি গায়ে গুলি করা ব্যক্তিটি কে?
নয়াপল্টনে আর্জেন্টিনার জার্সি গায়ে গুলি করা ব্যক্তিটি কে?
বাংলাদেশের প্রতিশ্রুতির কথা স্মরণ করিয়ে দিলেন জাতিসংঘ প্রতিনিধি
বাংলাদেশের প্রতিশ্রুতির কথা স্মরণ করিয়ে দিলেন জাতিসংঘ প্রতিনিধি
সরকার বিট্রে করেছে: মির্জা ফখরুল
ব্যাগ নিয়ে কার্যালয়ে ঢুকে গ্রেফতার দেখাবেসরকার বিট্রে করেছে: মির্জা ফখরুল