X
শুক্রবার, ০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
১৯ মাঘ ১৪২৯

অটোরিকশা বিক্রির বকশিশ নিয়ে বিরোধের জেরে চালককে হত্যা

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম
০৬ ডিসেম্বর ২০২২, ১৬:৪৫আপডেট : ০৬ ডিসেম্বর ২০২২, ১৭:০২

চট্টগ্রামের বোয়ালখালী উপজেলায় হেলাল উদ্দিন নামে এক সিএনজিচালিত অটোরিকশাচালককে হত্যার ঘটনায় তিন জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। সোমবার (৫ ডিসেম্বর) রাতে মহানগরের বাকলিয়া থানার নতুন সেতু এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারের পর তারা হত্যার দায় স্বীকার করেছে। 

মঙ্গলবার (৬ ডিসেম্বর) দুপুরে র‌্যাব-৭ এর সিনিয়র সহকারী পরিচালক মো. নূরুল আবছার বিষয়টি বাংলা ট্রিবিউনকে নিশ্চিত করেছেন।

গ্রেফতারকৃতরা হলো—মোহাম্মদ বখতিয়ার (২৭), মো. ইলিয়াস (৩৫) ও মনির আহম্মদ প্রকাশ মেহেরাজ (২৬)। 

র‌্যাব-৭ এর সিনিয়র সহকারী পরিচালক নূরুল আবছার জানান, হত্যার শিকার হেলাল উদ্দিন পেশায়  অটোরিকশাচালক। তার গ্রামের বাড়ি নেত্রকোনার পূর্বধলা উপজেলার নিজহোগলা গ্রামে। তিনি দীর্ঘদিন ধরে চট্টগ্রামের বোয়ালখালীর জমাদারহাট এলাকায় একটি বাসা ভাড়া নিয়ে থাকতেন। সেখানে অটোরিকশা চালাতেন। অটোরিকশা চালানোর সুবাদে ইলিয়াসের সঙ্গে তার পরিচয় হয়। ইলিয়াস পেশায় অটোরিকশা গ্যারেজের মিস্ত্রি। 

চার মাস আগে মামাতো ভাইয়ের একটি অটোরিকশা বিক্রির জন্য হেলালের সহযোগিতা চায় ইলিয়াস। অটোরিকশা বিক্রি করে দিতে পারলে ইলিয়াসের মামাতো ভাই তাদের দুই জনকে পাঁচ হাজার টাকা বকশিশ দেওয়ার কথা বলেন। পরে ইলিয়াস ও হেলাল এক লাখ ৫৫ হাজার টাকায় সেটি বিক্রি করে। এ সময় ইলিয়াসের মামাতো ভাই খুশি হয়ে তাকে কিছু টাকা বকশিশ দেন। ওই টাকা থেকে ইলিয়াস কিছু রেখে বাকি এক হাজার টাকা হেলালকে দেয়। তখন হেলাল ইলিয়াসকে বলেন, ‘‘তোকে পাঁচ হাজার টাকা দিয়েছে, আর আমাকে মাত্র এক হাজার টাকা দিলি কেন?’ এ নিয়ে দুই জনের মধ্যে বাগবিতণ্ডা হয়। একপর্যায়ে একে-অপরকে মারধর করে। 

এই ঘটনার পর ইলিয়াস প্রতিশোধ নেওয়ার সুযোগ খুঁজতে থাকে। তার পূর্বপরিচিত অটোরিকশাচালক  বখতিয়ার ও মনির আহম্মদ ওরফে মেহেরাজকে ভাড়া করে হেলালকে হত্যার পরিকল্পনা করে। অটোরিকশা বেচা-কেনার কথা বলে গত ২৯ নভেম্বর সন্ধ্যায় হেলালকে বোয়ালখালী পৌরসভার সিও অফিস সংলগ্ন একটি সিএনজি স্টেশনে আসতে বলে ইলিয়াস। এরপর হেলাল অটোরিকশা নিয়ে সেখানে গেলে ইলিয়াসের সঙ্গে কথা হয়। তখন অটোরিকশা কেনার কথা বলে তাকে বোয়ালখালী থানার ৯ নম্বর আমুচিয়া ইউনিয়নের পোস্ট অফিস সড়ক থেকে একটু দুর্গম এলাকায় নিয়ে যায়। পূর্বপরিকল্পিতভাবে আরও একটি অটোরিকশা নিয়ে বখতিয়ার ও মেহেরাজ সেখানে যায়। তারা উল্লেখিত স্থানে একত্রিত হওয়ার পর হেলালকে কিল-ঘুষি ও লাথি মারতে থাকে। এরপর বখতিয়ার লাঠি দিয়ে তার মাথায় আঘাত করে। মেহেরাজ তাৎক্ষণিকভাবে তার সঙ্গে থাকা ছুরি দিয়ে পিঠে আঘাত করে। ইলিয়াস অটোরিকশা থেকে হাতুড়ি নিয়ে এসে হেলালের মাথায় উপুর্যপরি আঘাত করতে থাকে। হেলালের মৃত্যু নিশ্চিত করে ইলিয়াস অটোরিকশা নিয়ে পালিয়ে যায়। পরে ইলিয়াসের দুই সহযোগী বখতিয়ার ও মেহেরাজ লাশ পাশের একটি ধানক্ষেতে রেখে দেয়।

নূরুল আবছার জানান, এ ঘটনায় গত ৪ ডিসেম্বর হেলাল উদ্দিনের স্ত্রী বাদী হয়ে বোয়ালখালী থানায় পাঁচ জনের নাম উল্লেখ করে এবং অজ্ঞাতনামা ৩-৫ জনকে আসামি করে হত্যা মামলা করেন। হেলালের স্ত্রী ৪ ডিসেম্বর অধিনায়ক র‌্যাব-৭ বরাবর একটি লিখিত আবেদন করেন। আবেদনটি আমলে নিয়ে তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার ও ব্যাপক গোয়েন্দা নজরদারি শুরু করা হয়। এরই পরিপ্রেক্ষিতে সোমবার রাতে বাকলিয়া থানার নতুন সেতু এলাকা থেকে হত্যাকাণ্ডে সরাসরি জড়িত তিন জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গ্রেফতারকৃতরা প্রাথমিক জিজ্ঞেসাবাদে হেলাল উদ্দিনকে হত্যার কথা স্বীকার করেছে।

/এসএইচ/
সর্বশেষ খবর
রাজশাহীতে ৩ জনকে হত্যা
রাজশাহীতে ৩ জনকে হত্যা
নার্সদের যৌন হয়রানি: দুই চিকিৎসককে বদলি
নার্সদের যৌন হয়রানি: দুই চিকিৎসককে বদলি
ছিনতাইকারীর ছুরিকাঘাতে আহত পার্বত্য মন্ত্রীর এপিএস
ছিনতাইকারীর ছুরিকাঘাতে আহত পার্বত্য মন্ত্রীর এপিএস
মধ্যরাতে জাবি উপাচার্যের বাসভবনের সামনে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ
মধ্যরাতে জাবি উপাচার্যের বাসভবনের সামনে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ
সর্বাধিক পঠিত
টিকিট কাটতে বলায় সন্তানকে বিমানবন্দরে রেখেই চলে যান দম্পতি!
টিকিট কাটতে বলায় সন্তানকে বিমানবন্দরে রেখেই চলে যান দম্পতি!
পিন নম্বর ছাড়াই সব কার্ডে লেনদেনের সুযোগ
পিন নম্বর ছাড়াই সব কার্ডে লেনদেনের সুযোগ
নির্বাচন অফিসে গিয়ে আপ্যায়ন চাইলেন হিরো আলম, পেলেন মিষ্টি
নির্বাচন অফিসে গিয়ে আপ্যায়ন চাইলেন হিরো আলম, পেলেন মিষ্টি
ইয়েমেনে যাচ্ছিল ইরানের বিপুল অস্ত্র-গোলাবারুদ, আটকালো ফ্রান্স-যুক্তরাষ্ট্র
ইয়েমেনে যাচ্ছিল ইরানের বিপুল অস্ত্র-গোলাবারুদ, আটকালো ফ্রান্স-যুক্তরাষ্ট্র
সাত পদে ১১৭ জনের সরকারি চাকরির সুযোগ
সাত পদে ১১৭ জনের সরকারি চাকরির সুযোগ