প্রজেরিয়ায় আক্রান্ত বায়েজিদ মারা গেছে

Send
মাগুরা প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৯:৩৪, ডিসেম্বর ১২, ২০১৭ | সর্বশেষ আপডেট : ১৯:৩৮, ডিসেম্বর ১২, ২০১৭

বায়েজিদমাগুরায় বিরল রোগ প্রজেরিয়ায় আক্রান্ত শিশু (৫) বায়েজিদ সোমবার রাতে ফরিদপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে মারা গেছে। মঙ্গলবার (১২ ডিসেম্বর) সকালে মাগুরার মোহাম্মদপুর উপজেলার খালিয়ায় নিজ গ্রামে বায়েজিদকে দাফন করা হয়েছে।

বায়োজিদের বাবা লাবলু শিকদার জানান, প্রস্রাব বন্ধ হয়ে পেট ফুলে যাওয়ায় রবিবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে বায়েজিদকে মাগুরা সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। পরবর্তীতে তার অবস্থার আরও অবনতি হলে ভোর সাড়ে ৫টার দিকে তাকে ফরিদপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে সোমবার রাতে সে মারা যায়।

বায়েজিদকে নিয়ে গত বছর মে মাসে সংবাদ প্রকাশিত হলে মাগুরা সদর হাসপাতালে গঠিত মেডিক্যাল বোর্ড তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। অনেকে তার চিকিৎসা জন্য আর্থিক সহায়তার হাত বাড়ান। ঢাকায় দেড় মাস চিকিৎসা করালেও তার শরীরিক অবস্থার কোনও পরিবর্তন না হওয়ায় তাকে বাড়ি ফেরৎ আনা হয়।মায়ের কোলে বায়েজিদ

বাড়ি ফেরার পর সে আরও অসুস্থ হয়ে পড়ে। সে মাগুরা সদর হাসপাতারের মেডিসিন চিকিৎসক দেবাশিষ বিশ্বাসের অধীনে চিকিৎসাধীন ছিল। ডা. দেবাশিষ বিশ্বাস বলেন, ‘পুরুষাঙ্গের চামড়া বেড়ে তার প্রস্রাবের রাস্তা বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। এবস্থায় তার অস্প্রোপচারের প্রয়োজন ছিল। কিন্তু বায়েজিদ যেহেতু জন্মগতভাবে জটিল প্রজেরিয়া রোগে আক্রান্ত সে কারণে তার জন্য এই অস্ত্রোপচার ছিল অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ।’

বায়েজিদের জন্ম ২০১২ সালের ১৪ মে। জন্মের পর থেকেই সমস্যা দেখা দেয় বায়েজিদের। বয়সের ছাপ পড়তে থাকে চেহারায়। তার মা-বাবা স্থানীয় বিভিন্ন হাসপাতালে দৌড়াদৌড়ি করেছেন। তবে ঢাকায় এনেও তার অবস্থার উন্নতি হয়নি। 

আরও পড়ুন- 

সেই ‘বৃদ্ধ-শিশু’ ঢামেক হাসপাতালে ভর্তি

সেই শিশুর চিকিৎসায় মেডিক্যাল টিম গঠন

/এফএস/

লাইভ

টপ