নীলফামারীতে ঝড়ে একজনের মৃত্যু, উপড়ে পড়লো বটগাছ

Send
নীলফামারী প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ০৬:৪৩, মে ২৬, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০৬:৫৯, মে ২৬, ২০২০

ঝড়ে উপড়ে পড়েছে বটগাছদুই দফা ঝড়ে নীলফামারীর ডোমারে একজন নিহত ও ছয় জন আহত হয়েছেন। নিহত ওই ব্যক্তির নাম  মোসলেম উদ্দিন (৬৫)। তিনি উপজেলার জোড়াবাড়ি ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান আবুল হাসানের ভাই। ঝড়ে শতাধিক ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত এবং বটগাছসহ হাজারেরও বেশি গাছপালা উপড়ে পড়েছে। ডোমার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোছা. শাহিনা সবনম এসব তথ্য জানান।

ইউএনও বলেন, 'হঠাৎ ঝড়ে ১৫-২০টি ঘরবাড়ি, গাছপালা ও বিদ্যুতের খুঁটি উপড়ে পড়েছে। এতে প্রায় অর্ধকোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে। স্থানীয় চেয়ারম্যানকে ক্ষতিগ্রস্তদের তালিকা তৈরি করতে বলা হয়েছে।'

স্থানীয় বিদ্যুৎ বিভাগ জানায়, খুঁটি ভেঙে পড়ায় বিদ্যুৎহীন রয়েছে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা। বিদ্যুৎ সরবরাহ করতে কাজ করছে বিদ্যুৎ বিভাগ।

রবিবার (২৪ মে) রাত সাড়ে ১০টার দিকে প্রথম ঝড়ে জেলার ডোমার উপজেলার মির্জাগঞ্জ বাজারে একটি বড় বট গাছ উপড়ে পড়ে ছয়টি দোকান বিধ্বস্ত হয়।

ঝড়ে উড়ে গেছে ঘরের টিনএ ঘটনায় আহতাবস্থায় ছয় জনকে উদ্ধার করা হয়। তবে মোসলেম উদ্দিন (৬৫) ঘটনাস্থলেই মারা যান। আহতরা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরেছেন। ঝড়ে প্রায় ২০টি বাড়ি, হাজারেরও বেশি গাছপালা এবং বৈদ্যুতিক খুঁটি উপড়ে পড়েছে। ইরি-বোরো ধান, আম, কাঠাল, সবজি ও কলা বাগানের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে।

এদিকে সোমবার (২৫ মে) ভোর ৫টার দিকে দ্বিতীয় দফা ঝড়ে জেলার সৈয়দপুর ও কিশোরগঞ্জ উপজেলায় ইরি-বোরো ও সবজির ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে।

জেলা প্রশাসক মো. হাফিজুর রহমান চৌধুরী জানান, ঝড়ে গাছের চাপায় একজন নিহত হয়েছেন। বেশ কিছু বাড়িঘর ও দোকানের ক্ষতি হয়েছে। জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ক্ষতিগ্রস্তদের তালিকা করে দ্রুত ত্রাণ দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে। চূড়ান্ত তালিকা পাওয়া গেলে সেই অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

/আইএ/

লাইভ

টপ