১০ টাকা কেজির চাল কম দেওয়ায় ডিলারশিপ বাতিল

Send
নীলফামারী প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ০২:১০, অক্টোবর ২৩, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০২:১৪, অক্টোবর ২৩, ২০২০

নীলফামারী

নীলফামারীর সৈয়দপুরে ১০ টাকা কেজি দরের চাল আত্মসাৎ ও ওজনে কম দেওয়ার অভিযোগে এক ডিলারের লাইসেন্স বাতিল ও জামানাত বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। তার নাম আবু সাইদ চৌধুরী। বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর) দুপুরে উপজেলার বোতলাগাড়ী ইউনিয়নে ঘটনাটি ঘটে।

জানা যায়, তিনি স্থানীয় প্রভাবশালী পরিবারের সদস্য হওয়ায় প্রভাব ঘাটিয়ে কার্ডধারীদের ৩০ কেজির স্থানে ২৫-২৭ কেজি করে চাল বিক্রি করেন। এতে সুবিধাভোগীরা প্রতিবাদ করলে তাদেরকে নানাভাবে হয়রানি ও অপমান করা হতো। এছাড়াও অনেকের কার্ড জোর করে কেড়ে নিয়ে ওই চাল আত্মসাৎ করেন তিনি।

এ ব্যাপারে গত বুধবার (২১ অক্টোবর) উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে অভিযোগ করেন, ওই ইউনিয়নের নাপিত পাড়ার খোকা চন্দ্রের ছেলে অশ্বিনী চন্দ্র (কার্ড নং-৩৪৭), রনজিৎ চন্দ্র (কার্ড নং-৩৫৪), তাঁতী পাড়ার মজিদুল ইসলাম (কার্ড নং-৩২৮), ধুলাতি পাড়ার জাহিদুল ইসলাম (কার্ড নং-৫৮), পশ্চিম হাজি পাড়ার আব্দুল খালেক (কার্ড নং-২৯৮)।

তারা অভিযোগ করে বলেন, ২০১৬ সালের সেপ্টেম্বর মাসে মেম্বার আব্দুল মোতালেব কার্ড করে দেয়। অক্টোবর মাসে কার্ড পেয়ে মাত্র দুই মাস চাল তুলেছি। এরপর চাল আনতে গেলে আমাদের কার্ড বাতিল হয়েছে সাফ জানিয়ে দেয় ডিলার আবু সাইদ। বিষয়টি নিয়ে ওই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আল হেলাল চৌধুরীর কাছে অভিযোগ করেও কোনও সুরাহা হয়নি। এতে সুবিধাভোগীরা সরকারের খাদ্যবান্ধব কর্মসূচি থেকে বঞ্চিত হয়েছে। এভাবে কেটে গেছে চার বছর। বর্তমানে আমাদের কার্ড বহাল আছে জানতে পেরে ইউএনও’র কাছে লিখিত অভিযোগ করে বিষয়টি তদন্ত করে বিচারের দাবি করেন তারা।

আজ বৃহস্পতিবার ওই অভিযোগের ভিত্তিতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাসিম আহমেদ ও খাদ্য নিয়ন্ত্রক তৌহিদুর রহমান ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে চাল কম দেওয়ার বিষয়টি হাতেনাতে ধরে ফেলেন। এরই পরিপ্রেক্ষিতে ডিলারের লাইসেন্স বাতিলসহ তার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণের প্রক্রিয়া শুরু করেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বলেন, চাল কম দেওয়ার অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় তার লাইসেন্স বাতিল ও জামানত বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। এছাড়াও সুবিধাভোগীদের কার্ড কেড়ে নেওয়ার অপরাধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

ওই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আল হেলাল চৌধুরী জানান, এ পর্যন্ত আমার কাছে কেউ এমন অভিযোগ নিয়ে আসেনি। তার ডিলারশিপ বাতিল হওয়ার বিষয়ে আমি কিছুই জানি না। তাই এ বিষয়ে আমার কোনও মন্তব্য নেই।

/টিএন/

লাইভ

টপ