X
রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪
৮ বৈশাখ ১৪৩১

‘৭ জানুয়ারির নির্বাচন সর্বমহলে গ্রহণযোগ্য, ইসিকে উচ্চমাত্রায় নিয়ে গেছে’

নওগাঁ প্রতিনিধি
০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৪:৫৬আপডেট : ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৪:৫৬

নির্বাচন কমিশনার বেগম রাশেদা সুলতানা বলেছেন, ‘৭ জানুয়ারির নির্বাচন সর্বাত্মক স্বচ্ছ ও নিরপেক্ষভাবে অনুষ্ঠিত হয়েছে। দেশে-বিদেশে সর্বমহলে গ্রহণযোগ্য হয়েছে। যার কারণে নির্বাচন কমিশনকে উচ্চমাত্রায় নিয়ে গেছে। নির্বাচন কমিশন এই অবস্থান থেকে সরে আসবে না। বরং আগামীতে যেকোনও নির্বাচনে কমিশন আরও স্বচ্ছ ও শক্ত অবস্থানে থাকবে।’

রবিবার (৪ ফেব্রুয়ারি) দুপুর ১২টায় নওগাঁ জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনে নওগাঁ-২ (পত্নীতলা-ধামইরহাট) আসনের আসন্ন নির্বাচনকে সামনে রেখে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী, রিটার্নিং অফিসার, সহকারী রিটার্নিং অফিসার ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কর্মকর্তাদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় তিনি এ কথা বলেন।

জেলার রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক গোলাম মওলার সভাপতিত্বে আয়োজিত মতবিনিময় সভায় রাজশাহী বিভাগের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার ড. দেওয়ান মো. হুমায়ুন কবির, রাজশাহী বিভাগের অতিরিক্ত ডিআইজি ফয়সল মাহমুদ, পুলিশ সুপার রাশিদুল হক, রাজশাহীর আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা দেলোয়ার হোসেনসহ প্রার্থীরা বক্তব্য রাখেন।

নির্বাচন কমিশনার বেগম রাশেদা সুলতানা বলেন, ‘আমরা আন্তরিকভাবেই চেয়েছিলাম বলেই দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন সুষ্ঠু, অবাধ ও গ্রহণযোগ্য করতে পেরেছিলাম। নির্বাচন গ্রহণযোগ্য, নিষ্কণ্টক ও স্বচ্ছ করা কেবলমাত্র নির্বাচন কমিশনের পক্ষে সম্ভব না। সংশ্লিষ্ট সবার দায় রয়েছে। নির্বাচন কমিশন দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনে সর্বোচ্চ নিরপেক্ষতার নিদর্শন সৃষ্টি করেছে। যদি নিরপেক্ষ না হতো তাহলে এতো বিপুল সংখ্যক স্বতন্ত্র প্রার্থী নির্বাচিত হতে পারতেন না। এমনকি সারা দেশে অনেক হেভিওয়েট প্রার্থীরা পরাজিত হতেন না।’

সকল প্রার্থীকে নির্বাচনি আচরণবিধি মেনে নির্বাচনের প্রচারণা করতে আহ্বান জানান। তিনি বলেন, ‘এ বিষয়ে প্রার্থীদের কর্মী-সমর্থকদেরও আচরণবিধি মেনে চলতে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেওয়ার জন্য একটি দেশের গণতান্ত্রিক অবকাঠামো স্থিতিশীল রাখতে কমিশনকে জনগণের কাছে অধিক আস্থাশীল হতে হবে। সেই জায়গা থেকে বর্তমান নির্বাচন কমিশন সর্বোচ্চ নিরপেক্ষ ও নিষ্কণ্টক থেকে কাজ করছে। নির্বাচনের মাধ্যমে শাসন ব্যবস্থার
পরিবর্তন আমাদের কাম্য হওয়া উচিত।’

/এফআর/
সম্পর্কিত
সার্বিক অগ্রগতির পথে প্রধান বাধা বিএনপি: ওবায়দুল কাদের
সিংড়া উপজেলার চেয়ারম্যান প্রার্থীকে শোকজ, ইসিতে এসে জবাব দেওয়ার নির্দেশ
নির্বাচন কমিশনারদের সুযোগ-সুবিধা সংক্রান্ত আইনের খসড়া অনুমোদন
সর্বশেষ খবর
৯ মাস ঘরছাড়া ২০০ পরিবার: এসপির ব্যাখ্যা চাইলো মানবাধিকার কমিশন
৯ মাস ঘরছাড়া ২০০ পরিবার: এসপির ব্যাখ্যা চাইলো মানবাধিকার কমিশন
লেট’স ভাইব ফেস্টিভ্যাল: ১২ হাজার দর্শক ও অন্যান্য
লেট’স ভাইব ফেস্টিভ্যাল: ১২ হাজার দর্শক ও অন্যান্য
বিমানবন্দরে বাস ঢুকে ইঞ্জিনিয়ারের মৃত্যু: চালকের দোষ স্বীকার
বিমানবন্দরে বাস ঢুকে ইঞ্জিনিয়ারের মৃত্যু: চালকের দোষ স্বীকার
তিস্তাসহ ৫৪টি নদীর পানির ন্যায্য হিস্যা দাবিতে বাসদের তিন দিনের রোডমার্চ
তিস্তাসহ ৫৪টি নদীর পানির ন্যায্য হিস্যা দাবিতে বাসদের তিন দিনের রোডমার্চ
সর্বাধিক পঠিত
ফেসবুকে উসকানিমূলক পোস্ট, হিন্দু মহাজোট ‘নেতা’ পুলিশ হেফাজতে
ফেসবুকে উসকানিমূলক পোস্ট, হিন্দু মহাজোট ‘নেতা’ পুলিশ হেফাজতে
জানা গেলো বেইলি রোডে আগুনের ‘আসল কারণ’
জানা গেলো বেইলি রোডে আগুনের ‘আসল কারণ’
চট্টগ্রামে ভূমিকম্প, মাত্রা ৩ দশমিক ৭
চট্টগ্রামে ভূমিকম্প, মাত্রা ৩ দশমিক ৭
কেএনএফের গুলিতে সেনাসদস্য নিহত, কেঁদে কেঁদে স্ত্রী বললেন আমার ৩ সন্তানকে কে দেখবে?
কেএনএফের গুলিতে সেনাসদস্য নিহত, কেঁদে কেঁদে স্ত্রী বললেন আমার ৩ সন্তানকে কে দেখবে?
আজকের আবহাওয়া: ৩ বিভাগে বৃষ্টির আভাস
আজকের আবহাওয়া: ৩ বিভাগে বৃষ্টির আভাস