X
বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২
১৩ আশ্বিন ১৪২৯

বিদ্যালয়ের শহীদ মিনার বেহাল

তৈয়ব আলী সরকার, নীলফামারী‌
২০ ফেব্রুয়ারি ২০২২, ২১:৪৯আপডেট : ২০ ফেব্রুয়ারি ২০২২, ২১:৫২

‘অযত্ন আর অবহেলায় বেহাল শহীদ মিনার। এটি নিয়ে কারও মাথাব্যথা নেই। বরাদ্দ পেলে সংস্কার করা হবে। না হয় এভাবেই পড়ে থাকবে।’ ক্ষোভ প্রকাশ করে কথাগুলো বললেন নীলফামারীর সৈয়দপুর খাতামধুপুর ইউনিয়নের রথের পুকুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আলমাস সুলতানা।

সোমবার (২১ ফেব্রুয়ারি) শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস। অথচ রথের পুকুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শহীদ মিনারটি অযত্ন-অবহেলায় পড়ে আছে। এ অবস্থায় শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে শহীদদের প্রতি কীভাবে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হবে জানতে চাইলে আলমাস সুলতানা বলেন, ভাঙা শহীদ মিনার আজই পরিষ্কার করা হবে। সম্ভব না হলে দিবসটি পালন করা হবে না।

স্থানীয়রা জানান, নিম্নমানের কাজ করায় গতবার বর্ষা মৌসুমে পেছনের ইটগুলো খুলে বেদির নিচের অংশ থেকে বালু বের হয়ে গেছে। দীর্ঘদিনেও শহীদ মিনারটি সংস্কারের উদ্যোগ নেওয়া হয়নি। সম্প্রতি শহীদ মিনারের সামনে ওয়াসব্লক নির্মাণ করা হয়েছে। যা অত্যন্ত দৃষ্টিকটু ও অপমাননাকর। কারও সঙ্গে পরামর্শ না করে অপরিকল্পিতভাবে শহীদ মিনার ও ওয়াসব্লক নির্মাণ করা হয়েছে। এখন বলা হচ্ছে শহীদ মিনারটি অন্যত্র সরিয়ে নতুন করে নির্মাণ করা হবে। এভাবে বারবার সরকারি অর্থ নষ্ট করা হচ্ছে। সেই সঙ্গে নিজেদের পকেট ভরছেন সংশ্লিষ্টরা।

সরেজমিনে দেখা গেছে, শহীদ মিনারটি অরক্ষিত অবস্থায় আছে। ভাঙা অংশের ভেতরে ছাগল ছোটাছুটি করছে। শিক্ষক পিয়ন ও নৈশ্যপ্রহরী কারও নজর নেই। মাসের পর মাস একটি সরকারি প্রতিষ্ঠানের শহীদ মিনার এভাবে অবহেলায় পড়ে থাকতে দেখে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন স্থানীয়রা। শহীদ মিনারটি দ্রুত সংস্কারের দাবি জানিয়েছেন তারা।

বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির শিক্ষার্থী রথেরপুকুর গ্রামের আনোয়ার হোসেনের ছেলে সজিব হোসেন জানায়, এক বছর আগে শহীদ মিনার ভেঙে গেছে। এরপর আর সংস্কার করা হয়নি।

বিদ্যালয়ের নৈশপ্রহরী মাসুদ হোসেন বলেন, এবার অন্য বিদ্যালয়ে গিয়ে শহীদ মিনারে ফুল দেওয়া হবে বলে শুনেছি। তাই আমাদের বিদ্যালয়ের শহীদ মিনার ভাঙা অবস্থায় পড়ে রয়েছে। কবে সংস্কার হবে জানি না।

উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা ও প্রতিষ্ঠানের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি রুহুল আমিন বলেন, শহীদ মিনারটি সংস্কার করা হবে। বাজেট না থাকায় সংস্কার করা সম্ভব হয়নি। আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে ওই শহীদ মিনারে পুষ্পমাল্য না দিয়ে অন্য বিদ্যালয়ে পালন করা হবে। এই ব্যবস্থা আমরা গ্রহণ করবো।

/এএম/
সম্পর্কিত
সাফজয়ী নারী ফুটবল দলকে সংবর্ধনা দিলো সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট
সাফজয়ী নারী ফুটবল দলকে সংবর্ধনা দিলো সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট
শহীদ মিনারে ফুলেল শ্রদ্ধায় সিক্ত গাফফার চৌধুরী
শহীদ মিনারে ফুলেল শ্রদ্ধায় সিক্ত গাফফার চৌধুরী
ফ্রেশ সিমেন্টের উদ্যোগে দৃষ্টিশক্তিহীনদের জন্য বিশেষ শহীদ মিনার
ফ্রেশ সিমেন্টের উদ্যোগে দৃষ্টিশক্তিহীনদের জন্য বিশেষ শহীদ মিনার
গাছ ও ফুলের ব্যতিক্রমী শহীদ মিনার
গাছ ও ফুলের ব্যতিক্রমী শহীদ মিনার
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
কর্ণফুলীর তীর ঘেঁষে গড়ে উঠবে আবাসন, বাণিজ্য ও পর্যটন শিল্প
কর্ণফুলীর তীর ঘেঁষে গড়ে উঠবে আবাসন, বাণিজ্য ও পর্যটন শিল্প
‘জার্মানিকে আগেই সতর্ক করেছিল যুক্তরাষ্ট্র’
‘জার্মানিকে আগেই সতর্ক করেছিল যুক্তরাষ্ট্র’
অযত্ন-অবহেলায় বিকল ইবির ‘সততা ফোয়ারা’
অযত্ন-অবহেলায় বিকল ইবির ‘সততা ফোয়ারা’
‘আঁরার মাইয়া, আঁরার গর্ব’
চট্টগ্রামে ৫ ফুটবলারকে সংবর্ধনা‘আঁরার মাইয়া, আঁরার গর্ব’
এ বিভাগের সর্বশেষ
গাছ ও ফুলের ব্যতিক্রমী শহীদ মিনার
গাছ ও ফুলের ব্যতিক্রমী শহীদ মিনার
কুমিল্লায় প্রথম ভাষা চত্বর, পারিশ্রমিক নেননি নির্মাতা
কুমিল্লায় প্রথম ভাষা চত্বর, পারিশ্রমিক নেননি নির্মাতা
রামপালের ১৭৪ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নেই শহীদ মিনার
রামপালের ১৭৪ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নেই শহীদ মিনার