X
রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪
৯ আষাঢ় ১৪৩১

অভিবাসীদের ঠেকাতে রাশিয়ার সঙ্গে সীমান্ত বন্ধে মরিয়া ফিনল্যান্ড

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
১১ জুন ২০২৪, ১৮:৩৩আপডেট : ১১ জুন ২০২৪, ১৮:৩৩

পূর্ব ফিনল্যান্ডে রাশিয়ার সঙ্গে ইউরোপীয় ইউনিয়নের দীর্ঘতম সীমান্তটি রয়েছে। সেখানে ঘন ও গভীর বন এবং নীল হ্রদ রয়েছে। এমন শান্ত ও সুন্দর স্থানে মশাদের বিলাপ ছাড়া আর কোনও সাড়া শব্দ নেই। তবে হোইলোলার মতো এত সুন্দর এই জায়গার শান্তি ও নিস্তব্ধতা শিগগিরিই বিনষ্ট হবে বলে আশঙ্কা করছে ফিনিশ কর্তৃপক্ষ। এই সীমান্ত দিয়ে শীঘ্রই বিপুল সংখ্যক আশ্রয়প্রার্থীর ঢল নামতে পারে। এটিকে পশ্চিমের বিরুদ্ধে রাশিয়া পরিচালিত একটি হাইব্রিড যুদ্ধ হিসেবে দেখেছে হেলসিঙ্কি।

নিরাপত্তা জোরদারে ফিনল্যান্ড আরও বর্ডার গার্ড টহল, ড্রোন ও ইলেকট্রনিক ডিটেক্টর মোতায়েন করছে দেশটি। এমনকি সীমান্তের বিভিন্ন অংশে বেড়াও দিচ্ছে। পার্লামেন্ট গ্রীষ্মকালীন ছুটির আগে হেলসিঙ্কিতে কঠোর নতুন আইন অনুমোদন করবে বলে আশা করা হচ্ছে। তবে সমালোচকরা বলছেন, এই আইন দেশটির মানবাধিকারের শর্ত লঙ্ঘন করবে।

গত বছরের শেষের দিকে সীমান্তবর্তী নতুন এই পথ দিয়ে ইউরোপে সিরিয়া ও সোমালিয়ার মতো দেশগুলো থেকে প্রায় এক হাজার ৩০০ অভিবাসী আসে। এর পর রাশিয়ার সঙ্গে এক হাজার ৩৪০ কিলোমিটার (৮৩৩ মাইল) দীর্ঘ সীমান্ত বরাবর সব ক্রসিং পয়েন্ট অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ করে দেয় ফিনল্যান্ড।

এর পর থেকে মাত্র কয়েক ডজন আশ্রয়প্রার্থী ফিনল্যান্ডে ঘন বনাঞ্চলের ভেতর দিয়ে সীমান্ত পাড়ি দিতে সক্ষম হয়েছিল। তবে হেলসিঙ্কি মনে করে, এই পথে ক্রেমলিন যেকোনও সময় আরও অভিবাসীদের পাঠাতে পারে। তবে ফিনিশ কর্তৃপক্ষের এমন দাবি দৃঢ়ভাবে অস্বীকার করেছে মস্কো।

পরিকল্পিত নতুন আইনের অধীনে সীমান্তে টহলের জন্য ফিনিশ সীমান্ত রক্ষীরা হাজার হাজার সংরক্ষিত সেনাদের সাহায্য নিতে পারবে। সেসব সেনারা তাদের অভিবাসীদের ফোন সংকেত শনাক্ত করতে, তাদের বন্দি শিবিরে পাঠাতে এবং আশ্রয়ের আবেদন গ্রহণ না করেই আশ্রয়প্রার্থী অভিবাসীদের রাশিয়ায় ফেরত পাঠানোর বিষয়ে সহযোগিতা করবেন।

ফিনল্যান্ডের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মারি রন্তানেন রয়টার্সকে বলেছেন, ‘শুধু অভিবাসীদের জন্য ইউরোপে এমন একটি নতুন রুট খোলার অনুমতি দিতে পারে না ফিনল্যান্ড।

রাত্নানেন আরও বলেছেন, ‘তবে সামগ্রিকভাবে এটি শুধু একটি অভিবাসী রুটই নয়, বরং এটি এমন একটি পরিস্থিতি যেখানে অন্য দেশের কর্তৃপক্ষ ফিনল্যান্ডের সীমান্তে পৌঁছাতে অভিবাসীদের সাহায্য করছে, এমনকি চাপও দিচ্ছে এবং ঠেলে দিচ্ছে।’

রাশিয়ার সঙ্গে একসময় তুলনামূলকভাবে সৌহার্দ্যপূর্ণ সম্পর্ক ছিল ফিনল্যান্ডের। তবে ২০২২ সালের ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনের রাশিয়ার সর্বাত্মক হামলা চালালে ন্যাটোতে যোগদানের সিদ্ধান্ত নেয় দেশটি। এর পর থেকেই মস্কোর সঙ্গে হেলসিঙ্কির সম্পর্কের অবনতি ঘটে।

/এএকে/
সম্পর্কিত
আহত ফিলিস্তিনিকে জিপে বেঁধে ইসরায়েলি সেনাদের অভিযান
হরিয়ানায় কারখানায় বিস্ফোরণ , নিহত ৪
বাংলাদেশের জঙ্গি সংগঠনের সঙ্গে জড়িত, পশ্চিমবঙ্গে যুবক আটক
সর্বশেষ খবর
কেমন ছিল পঁচাত্তর পরবর্তী আওয়ামী লীগ
কেমন ছিল পঁচাত্তর পরবর্তী আওয়ামী লীগ
আওয়ামী লীগ প্রতিষ্ঠা নিয়ে যা বলেছিলেন বঙ্গবন্ধু
আওয়ামী লীগ প্রতিষ্ঠা নিয়ে যা বলেছিলেন বঙ্গবন্ধু
গুলবাদিন-নাভিনের বোলিংয়ে অস্ট্রেলিয়াকে হারালো আফগানিস্তান
গুলবাদিন-নাভিনের বোলিংয়ে অস্ট্রেলিয়াকে হারালো আফগানিস্তান
আহত ফিলিস্তিনিকে জিপে বেঁধে ইসরায়েলি সেনাদের অভিযান
আহত ফিলিস্তিনিকে জিপে বেঁধে ইসরায়েলি সেনাদের অভিযান
সর্বাধিক পঠিত
দক্ষিণ আফ্রিকা, ইংল্যান্ড ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের সেমিফাইনালে ওঠার সমীকরণ
দক্ষিণ আফ্রিকা, ইংল্যান্ড ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের সেমিফাইনালে ওঠার সমীকরণ
নায়িকার বিয়ে মাদ্রাসায়, দেনমোহর ৯ টাকা
নায়িকার বিয়ে মাদ্রাসায়, দেনমোহর ৯ টাকা
তিস্তা প্রকল্পে যুক্ত হওয়ার ঘোষণা ভারতের
তিস্তা প্রকল্পে যুক্ত হওয়ার ঘোষণা ভারতের
দীর্ঘায়ু পেতে চাইলে এই ৭ সুপার ফুড রাখুন পাতে
দীর্ঘায়ু পেতে চাইলে এই ৭ সুপার ফুড রাখুন পাতে
ইন্দো-প্যাসিফিক ওশেনস ইনিশিয়েটিভে যোগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত বাংলাদেশের
ইন্দো-প্যাসিফিক ওশেনস ইনিশিয়েটিভে যোগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত বাংলাদেশের